ম্ছোগ-গ্যুর-গ্লিং-পা

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
ম্ছোগ-গ্যুর-গ্লিং-পা

ম্ছোগ-গ্যুর-গ্লিং-পা (তিব্বতি: མཆོག་གྱུར་གླིང་པ་ওয়াইলি: mchog gyur gling pa) (১৮২৯-১৮৭০) তিব্বতের র্ন্যিং-মা ধর্মসম্প্রদায়ের একজন গ্তের-স্তোন ছিলেন।

জন্ম ও দীক্ষা[সম্পাদনা]

ম্ছোগ-গ্যুর-গ্লিং-পা ১৮২৯ খ্রিষ্টাব্দে তিব্বতের নাংছেন অঞ্চলে স্ক্যা-সু (ওয়াইলি: skya su) পরিবারগোষ্ঠীতে জন্মগ্রহণ করেন। তার পিতার নাম ছিল পে-মা-দ্বাং-ফ্যুগ (ওয়াইলি: pe ma dbang phyug) এবং মাতার নাম ছিল ত্শে-রিং-গ্যাং-ম্ত্শো (ওয়াইলি: tshe ring g.yang mtsho)। তিনি স্থানীয় দ্পাল-মে-থেগ-ছেন-এ-বাম-দ্গা'-ত্শাল-গ্লিং (ওয়াইলি: dpal me theg chen e vaM dga' tshal gling) বৌদ্ধবিহারে ছোস-ক্যি-র্গ্যাল-পো (ওয়াইলি: chos kyi rgyal po) নামক এক অবতারী লামার নিকট ভিক্ষুর শপথ গ্রহণ করেন।[১]

পারিবারিক জীবন[সম্পাদনা]

শিষ্য 'বার-বা'ই-র্দো-র্জের (ওয়াইলি: bar ba'i rdo rje) ভগ্নী ব্দে-স্ক্যিদ-ছোস-স্গ্রোন (ওয়াইলি: bde skyid chos sgron) তার সঙ্গিনী ছিলেন। তাদের দ্বাং-ফ্যুগ-র্দো-র্জে (ওয়াইলি: dbang phyug rdo rje) নামে এক পুত্র ও দ্কোন-ম্ছোগ-দ্পাল-স্গ্রোন (ওয়াইলি: dkon mchog dpal sgron) নামে এক কন্যাসন্তানের জন্ম হয়। এছাড়া ম্ছোগ-গ্যুর-গ্লিং-পা ১৮৫৬ খ্রিষ্টাব্দে 'জাম-দ্ব্যাংস-ম্খ্যেন-ব্র্ত্সে'-দ্বাং-পো (ওয়াইলি: 'jam dbyangs mkhyen brtse' dbang po) নামক বিখ্যাত লামার ভ্রাতুষ্পুত্রী গর্ভে কুন-ব্জাং-'জিগ্স-মেদ-ত্শে-দ্বাং-নোর-বু (ওয়াইলি: kun bzang 'jigs med tshe dbang nor bu) নামে এক পুত্রসন্তানের জন্ম দেন।[১]

গ্তের-স্তোন[সম্পাদনা]

ম্ছোগ-গ্যুর-গ্লিং-পা

১৮৪৮ খ্রিষ্টাব্দের অক্টোবর মাসে তিনি জ্লা-ন্যিন-খা-লা-রোং-স্গো (ওয়াইলি: zla nyin kha la rong sgo) নামক স্থানে বার-ছাদ-কুন-সেল (ওয়াইলি: bar chad kun sel) নামক গ্রন্থটি আবিষ্কার করেন। কিন্তু স্থানীয় লামারা তাকে একজন গ্তের-স্তোন হিসেবে স্বীকৃতি দিতে রাজী না হওয়ায় পঁচিশ বছর বয়সে তিনি নাংছেন ছেড়ে রাজানুগ্রহ ও পৃষ্ঠপোষকের সন্ধানে খাম্স অঞ্চলের ধর্মীয় ও রাজনৈতিক শক্তিকেন্দ্র স্দে-দ্গে রাজ্যে চলে যান। এই রাজ্যে ঙ্গেস-দোন-ব্স্তান-পা-রাব-র্গ্যাস (ওয়াইলি: ges don bstan pa rab rgyas) এবং ব্লো-গ্রোস-ম্থা'-য়াস (ওয়াইলি: blo gros mtha' yas) তাকে দীক্ষাপ্রদান করেন। এই সময় দীর্ঘকাল তিনি 'জাম-দ্ব্যাংস-ম্খ্যেন-ব্র্ত্সে'-দ্বাং-পোর সংস্পর্শে থাকেন, যিনি পরবর্তীকালে তার একজন পৃষ্ঠপোষক হয়ে ওঠেন। ১৮৫৭ খ্রিষ্টাব্দে 'জাম-দ্ব্যাংস-ম্খ্যেন-ব্র্ত্সে'-দ্বাং-পো ও তিনি পে-মা-শেল-ফুগ (ওয়াইলি: pe ma shel phug) নামে একটি আশ্রম প্রতিষ্ঠা করেন এবং এখানেই তিনি একজন গ্তের-স্তোন হিসেবে আনুষ্ঠানিক ভাবে স্বীকৃতি পান। এই স্থানে তিনি র্দ্জোগ্স-ছেন-স্দে-গ্সুম (ওয়াইলি: rdzogs chen sde gsum) নামক গ্রন্থটি আবিষ্কার করেন। এরপর তিনি ১৮৫৭ খ্রিষ্টাব্দের ফেব্রুয়ারি মাসে দ্পাল-স্পুংস (ওয়াইলি: dpal spungs) শহরে এলে তাকে সমারোহ করে অভ্যর্থনা জানানো হয়।[১]

তিন লামার কর্মকাণ্ড[সম্পাদনা]

১৮৫৯ খ্রিষ্টাব্দ থেকে ম্ছোগ-গ্যুর-গ্লিং-পা, ব্লো-গ্রোস-ম্থা'-য়াস এবং 'জাম-দ্ব্যাংস-ম্খ্যেন-ব্র্ত্সে'-দ্বাং-পো এই তিন বিখ্যাত লামা স্দে-দ্গে রাজ্যে ব্যাপকভাবে ধর্মীয় কর্মকাণ্ডে জড়িয়ে পড়েন, যা ইতিহাসে ম্খ্যেন-কোং-ম্ছোগ-স্দে-গ্সুম (ওয়াইলি: mkhyen kong mchog sde gsum) নামে পরিচিত। এই তিন লামা একসাথে বেশ কিছু লক্কায়িত সম্পদের আবিষ্কার, বিশ্লেষণ ও প্রকাশনার ব্যবস্থা করেন। তার রাজ্যের শান্তির জন্য বিভিন্ন স্থানে ধর্মীয় আচার অনুষ্ঠানের ব্যবস্থা করেন। তারা খ্রো উপত্যকায় একটি নতুন বৌদ্ধবিহার স্থাপন করতে চাইলেও রাজ্যের সা-স্ক্যা ধর্মসম্প্রদায়ভুক্ত লামাদের বিরোধিতায় ব্যর্থ হন। ন্যাগ-রোং অঞ্চলের শাসক ম্গোন-পো-র্নাম-র্গ্যাল (ওয়াইলি: mgon po rnam rgyal) দ্বারা স্দে-দ্গে রাজ্য অবরোধ হওয়ার পর তারা যুদ্ধে বিধ্বস্ত রাজ্যের ধর্মীয় গ্রন্থের প্রকাশনীটিকে পুনরায় চালু করার ব্যবস্থা করেন।[১]

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. Chhosphel, Samten (ডিসেম্বর ২০০৯)। "Chokgyur Lingpa"The Treasury of Lives: Biographies of Himalayan Religious Masters। সংগ্রহের তারিখ ২০১৪-০৯-০১ 

আরো পড়ুন[সম্পাদনা]

  • Doctor, Andreas. 2005. Tibetan Treasure Literature: Revelation, Tradition, and Accomplishment in Visionary Buddhism. Ithica: Snow Lion.
  • Orgyen Tobgyal Rinpoche. 1990. The Life and Teachings of Chokgyur Lingpa. Tulku Jigmey Khyentse and Erik Pema Kunsang, trans. Kathmandu: Rangjung Yeshe Publications.
  • Gardner, Alexander. 2006. “The twenty-five great sites of Khams: Religious geography, revelation, and nonsectarianism in ninetheenth-century eastern Tibet.” Ph.D. dissertation, University of Michigan.