নাইজেল হথোর্ন

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন

নাইজেল হথোর্ন

স্থানীয় নাম
Nigel Hawthorne
জন্ম
নাইজেল বার্নার্ড হথোর্ন

(১৯২৯-০৪-০৫)৫ এপ্রিল ১৯২৯
মৃত্যু২৬ ডিসেম্বর ২০০১(2001-12-26) (বয়স ৭২)
র‍্যাডওয়েল, হার্টফোর্ডশায়ার, ইংল্যান্ড
পেশাঅভিনেতা
কার্যকাল১৯৫০-২০০১
সঙ্গীট্রেভর বেন্থাম (১৯৭৯-২০০১)

স্যার নাইজেল বার্নার্ড হথোর্ন সিবিই (ইংরেজি: Nigel Barnard Hawthorne; ৫ এপ্রিল ১৯২৯ - ২৬ ডিসেম্বর ২০০১)[১] ছিলেন একজন ইংরেজ অভিনেতা। তিনি ১৯৮০-এর দশকে সিটকম ইয়েস মিনিস্টার এবং এর অনুবর্তী পর্ব ইয়েস, প্রাইম মিনিস্টার-এ স্যার হামফ্রি অ্যাপলবি চরিত্রে অভিনয় করে সেরা টিভি অভিনেতা বিভাগে চারটি বাফটা টিভি পুরস্কার অর্জন করেন। তিনি দ্য ম্যাডনেস অব কিং জর্জ (১৯৯৪) চলচ্চিত্রে রাজা তৃতীয় জর্জ চরিত্রে অভিনয় করে শ্রেষ্ঠ অভিনেতা বিভাগে অস্কারের মনোনয়ন লাভ করেন এবং শ্রেষ্ঠ প্রধান চরিত্রে অভিনেতা বিভাগে বাফটা পুরস্কার অর্জন করেন। তিনি পরবর্তী কালে দ্য ফ্র্যাজাইল হার্ট ধারাবাহিকে অভিনয় করে ১৯৯৬ সালে শ্রেষ্ঠ অভিনেতা বিভাগে বাফটা টিভি পুরস্কার অর্জন করেন।

মঞ্চে তিনি হ্যারল্ড পিন্টার, জঁ ককতোইউজিন ওনিলের রচিত নাটকে অভিনয় করেন। মঞ্চে তার কাজের জন্য একটি লরন্স অলিভিয়ে পুরস্কারটনি পুরস্কার অর্জন করেন। ১৯৮৭ সালে তিনি অর্ডার অব দ্য ব্রিটিশ এম্পায়ারের কমান্ডার এবং ১৯৯৯ সালে নাইট উপাধিতে ভূষিত হন।[২]

কর্মজীবন[সম্পাদনা]

তিনি ম্যাকসন স্টটের একটি বিজ্ঞাপন এবং ১৯৫০-এর দশকের শেষভাগে বিভিন্ন ব্রিটিশ টেলিভিশন ধারাবাহিকে ক্ষুদ্র চরিত্রে অভিনয় করেন। ১৯৮০-এর দশকে সিটকম ইয়েস মিনিস্টার-এ স্যার হামফ্রি অ্যাপলবি চরিত্রে অভিনয় করে খ্যাতি অর্জন করেন। এই কাজের জন্য তিনি সেরা টিভি অভিনেতা বিভাগে দুটি বাফটা টিভি পুরস্কার অর্জন করেন। পরবর্তী কালে তিনি ইয়েস মিনিস্টার-এর অনুবর্তী পর্ব ইয়েস, প্রাইম মিনিস্টার-এ একই চরিত্রে অভিনয় করে সেরা টিভি অভিনেতা বিভাগে আরও দুটি বাফটা টিভি পুরস্কার অর্জন করেন।[২]

তিনি অ্যালান বেনেটের মঞ্চনাটক দ্য ম্যাডনেস অব থার্ড জর্জ-এ অভিনয় করে শ্রেষ্ঠ অভিনেতা বিভাগে লরন্স অলিভিয়ে পুরস্কার অর্জন করেন। ১৯৯৬ সালে এই নাটকের চলচ্চিত্ররূপ দ্য ম্যাডনেস অব কিং জর্জ (১৯৯৪)-এ রাজা তৃতীয় জর্জ চরিত্রে অভিনয় করে শ্রেষ্ঠ অভিনেতা বিভাগে অস্কারের মনোনয়ন লাভ করেন এবং শ্রেষ্ঠ প্রধান চরিত্রে অভিনেতা বিভাগে বাফটা পুরস্কার অর্জন করেন। তিনি পরবর্তী কালে দ্য ফ্র্যাজাইল হার্ট ধারাবাহিকে অভিনয় করে শ্রেষ্ঠ টিভি অভিনেতা বিভাগে তার ষষ্ঠ বাফটা পুরস্কার অর্জন করেন।[২]

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. "Nigel Hawthorne Biography (1929-2001)"ফিল্ম রেফারেন্স। সংগ্রহের তারিখ ৫ এপ্রিল ২০১৯ 
  2. বার্কার, ডেনিস (২৬ ডিসেম্বর ২০০১)। "Obituary: Sir Nigel Hawthorne"দ্য গার্ডিয়ান (ইংরেজি ভাষায়)। সংগ্রহের তারিখ ৫ এপ্রিল ২০১৯ 

বহিঃসংযোগ[সম্পাদনা]