খলজ ভাষা

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
খলজ
আর্ঘু
দেশোদ্ভবইরান
অঞ্চলইরানের কের্মন এবং ফর্স প্রদেশের কিছু অংশ, এবং মার্কাজি প্রদেশের অরক শহরের উত্তরপূর্ব দিকের অঞ্চল
নৃগোষ্ঠীখলজ জাতি
মাতৃভাষী
৪২,০০০ (২০০০)[১]
ভাষা কোডসমূহ
আইএসও ৬৩৯-৩klj
গ্লোটোলগturk1303[২]
এই নিবন্ধটিতে আইপিএ ফনেটিক চিহ্নসমূহ রয়েছে। সঠিক পরিবেশনার সমর্থন ছাড়া, আপনি প্রশ্ন বোধক চিহ্ন, বক্স, অথবা অন্যান্য চিহ্ন ইউনিকোড অক্ষরের পরিবর্তে দেখতে পারেন।

খলজ, যা আর্ঘু হিসাবেও পরিচিত, পশ্চিম ইরানে ব্যবহৃত একটি ভাষা। বেশ কিছু ফার্সি প্রভাব থাকা সত্বেও এটিকে একটি বিচ্ছিন্ন তুর্কীয় ভাষা হিসাবে শ্রেণীবদ্ধ করা হয় অনেক ।

আইএসও বিভ্রান্তি[সম্পাদনা]

এথ্‌নোলগ এবং আইএসওর মতে ইরানী ভাষা "খলজ" একই জনসংখ্যা দ্বারা ব্যবহৃত হয়,[৩] কিন্তু গ্লটোলগের মতে এটি বিদ্যমান নয়।[৪] খালজরা তাদের তুর্কী ভাষা ও ফারসি ভাষায় কথা বলে, এবং খলজদের অনুমিত ইরানীয় ভাষাটি ভেজাল বলে মনে করা হয়। [৫]

শ্রেণীবিন্যাস[সম্পাদনা]

যদিও প্রাথমিকভাবে এই ভাষাকে আজারবাইজানির সঙ্গে সম্পর্কিত বলে মনে করা হতো, ভাষাগত গবেষণায়, বিশেষ করে গারহার্ড ডেরফারের গবেষনায়, এই ভাষাকে তুর্কীয়ের স্বতন্ত্র শাখা হিসাবে পুনঃশ্রেণীকরণ করা হয়েছে।[৬] এর প্রমাণ পাওয়া যায় প্রত্ন-তুর্কীয় ভাষার স্বরধ্বনি-দৈর্ঘ্য পার্থক্যের উপস্থিতি,[৭] শব্দ-প্রাথমিক *হ, এবং ওঘুজ ভাষাগুলির *য় শব্দ পরিবর্তনের বৈশিষ্ট্যের অভাব।[তথ্যসূত্র প্রয়োজন] [ উদ্ধৃতি প্রয়োজন ] খলজের রক্ষণশীল চরিত্রটি বিভিন্ন তুর্কীয় ভাষার একই শব্দগুলির তুলনা করলে বোঝা যায়। উদাহরণস্বরূপ, খলজ ভাষায় "পা"-কে "হাদাক়" বলে, যেখানে নিকটবর্তী ওঘুজ ভাষাগুলিতে সমশব্দ হলো "আয়াক়" (তুর্কির "আয়াক"-এর সঙ্গে তুলনীয়)। এই প্রাচীন অপ্রচলিত বৈশিষ্ট্যগুলির সংরক্ষণের কারণে কিছু পণ্ডিতরা ধারণা করেছেন যে খলজরা আর্ঘু তুর্কিদের বংশধর।[তথ্যসূত্র প্রয়োজন] কিছু তুর্কি পণ্ডিত খলজকে প্রাচীন তুর্কীয়ের "শেষ উদাহরণ" হিসাবে বিবেচনা করেন।[৮]

ভৌগোলিক বন্টন[সম্পাদনা]

খলজ প্রধানত ইরানের মার্কাজি প্রদেশে ব্যবহার হয়ে থাকে। ডেরফার অনুসারে খলজভাষির সংখ্যা ১৯৬৮ সালে আনুমানিক ১৭,০০০ ছিল; এথ্‌নোলগের বিবরণ অনুযায়ী ২০০০ সালে এর সংখ্যা বেড়ে দাঁড়িয়েছে ৪২,১০৭।

উপভাষা[সম্পাদনা]

খলজের প্রধান উপভাষাগুলি হলো উত্তর ও দক্ষিণ খলজ। এই উপভাষা গোষ্ঠীগুলির মধ্যেই, পৃথক গ্রাম এবং ভাষাভাষি গোষ্ঠীগুলির স্বতন্ত্র বাচনভঙ্গির নিদর্শন রয়েছে।

ধ্বনিবিজ্ঞান[সম্পাদনা]

ব্যঞ্জনধ্বনি[সম্পাদনা]

ব্যঞ্জনধ্বনীয় স্বনিম [৯]
ওষ্ঠ্য দন্তমূলীয় পশ্চাদ্দন্তমূলীয় পশ্চাত্তালব্য অলিজিহ্ব্য কণ্ঠনালীয়
নাসিক্য m n ŋ
স্পর্শ/
ঘৃষ্ট
অঘোষ p t t͡ʃ k q
ঘোষ b d d͡ʒ ɡ ɢ
উষ্ম অঘোষ f s ʃ x h
ঘোষ v z ʒ ɣ
নৈকট্য l j
র-কার r

স্বরধ্বনি[সম্পাদনা]

স্বরধ্বনীয় স্বনিম[৯]
সম্মুখ কেন্দ্রিক পশ্চাৎ
অকুঞ্চিত কুঞ্চিত
সংবৃত i [i] ī [iː] ü [y] üː[yː] ï [ɨ] ïː[ɨː] u [u][uː]
মধ্য e [e][eː] ö [ø] öː [øː] o [o][oː]
বিবৃত ä [æ] äː[æː] a [a] aa [aː]

ডেরফার[১০] দাবি করেন যে খলজে প্রত্ন-তুর্কীয়ের তিনরকমের স্বরধ্বনির দৈর্ঘ্য বজায় রয়েছে: দীর্ঘ (যেমন [qn] 'রক্ত'), অর্ধ-দীর্ঘ (যেমন [bʃ] 'মাথা'), এবং সংক্ষিপ্ত (উদাহরণস্বরূপ [hat] 'ঘোড়া')। তবে মানাস্তের রামের (১৯৯৫) উভয় ব্যাখ্যাতে আপত্তি জানিয়ে বলেছেন যে খলজের তিনটি স্বর দৈর্ঘ্য রয়েছে এবং প্রত্ন-তুর্কীয়তেও এই ত্রিমুখী পার্থক্য ছিল। প্রত্ন-তুর্কীয়ের কিছু স্বরধ্বনি দ্বিস্বরধ্বনি হিসাবে প্রতীত হয়, যেমন [quo̯l] ('বাহু')।

ব্যাকরণ[সম্পাদনা]

শব্দরূপতত্ত্ব[সম্পাদনা]

বিশেষ্য[সম্পাদনা]

খলজে বিশেষ্যপদ বহুবচন বা অধিকরণ সম্বন্ধ পদের বিভক্তি পেতে পারে। খলজে যে সকল প্রকারের কারক দেখতে পাওয়া যায় তা হলো সম্বন্ধ পদ, কর্ম, সম্প্রদান, অধিকরণ, অপাদান, করণ, এবং সমীকরণ কারক

কারক-বিভক্তির রূপগুলি স্বরসঙ্গতি এবং পূর্ববর্তী ব্যঞ্জনবর্ণগুলির উপর ভিত্তি করে পরিবর্তিত হয়। এই বিভক্তিগুলি অধিকরণ সম্বন্ধ পদের বিভক্তির সঙ্গেও মিথস্ক্রিয়া করে। মূল বিভক্তিগুলির একটি সারণি নিচে দেওয়া হলো:

কারক বিভক্তি
কর্তৃ -
সম্প্রদান -আ, -কা
কর্ম -ই, -নি
অধিকরণ -চা
অপাদান -ডা
করণ -লান, -লা, -না
সমীকরণ -ৰারা

ক্রিয়া[সম্পাদনা]

খলজে ক্রিয়া বভক্তি বাচ্য, কাল, ভাবপ্রকার, এবং নাবাচকতার উপর নির্ভর করে। নিম্নোক্ত রূপিম সমন্বয়ে খলজের ক্রিয়াগুলি তাদের রূপ ধারণ করে:

ক্রিয়ামূল + বাচ্য + নাবাচকতা + কাল/প্রকার + অন্বয় রীতি

বাক্য গঠন[সম্পাদনা]

খলজে কর্তা–কর্ম–ক্রিয়া শব্দক্রম ব্যবহার হয়। বিশেষণ বিশেষ্যর পূর্বে বসে।

খলজ শব্দভাণ্ডারের মূল হলো তুর্কীয়, কিন্তু বহু শব্দ ফারসি থেকে গ্রহণ করা হয়েছে। পার্শ্ববর্তী তুর্কীয় উপভাষাসমূহ, যেমন আজারবাইজানি, থেকেও শব্দ খলজ ভাষায় তাদের জায়গা করে নিয়েছে।

সংখ্যা[সম্পাদনা]

খলজ সংখ্যাগুলি তুর্কীয় রূপে রয়েছে, কিন্তু কিছু বক্তা "৮০" এবং "৯০" সংখ্যা দুটিকে বোঝাতে ফার্সি ব্যবহার করে থাকেন:

  • ১ - [biː]
  • ২ - [æk.ki]
  • ৩ - [yʃ]
  • ৪ - [tœœɾt]
  • ৫ - [bieʃ]
  • ৬ - [al.ta]
  • ৭ - [jæt.ti]
  • ৮ - [sæk.kiz]
  • ৯ - [toq.quz]
  • ১০ - [uon]
  • ২০ - [ji.giɾ.mi]
  • ৩০ - [hot.tuz]
  • ৪০ - [qiɾq]
  • ৫০ - [æl.li]
  • ৬০ - [alt.miʃ]
  • ৭০ - [yæt.miʃ]
  • ৮০ - [saj.san] (তুর্কীয়), [haʃ.tad] (ফার্সি)
  • ৯০ - [toqx.san] (তুর্কীয়), [na.vad] (ফার্সি)
  • ১০০ - [jyːz]
  • ১০০০ - [min], [miŋk]

উদাহরণ[সম্পাদনা]

Dorfer & Tezcan (১৯৯৪:১৫৮–১৫৯) থেকে:

বাংলা আধ্বব বাংলা হরফে উচ্চারণ
একদা, মোল্লা নাসিরুদ্দিনের এক ছেলে ছিলো। biː ki.niː mol.laː nas.ɾæd.diː.niːn oɣ.lu vaːɾ-aɾ.ti বী কিনী মোল্লা নাসর‌্যাদ্দীনীন ওঘলু ৰার আরটি
সে বললো, "ও বাবা, আমার বউ চাই।" hay.dɨ ki "æj baː.ba, mæŋ ki.ʃi ʃæj.jo.ɾum" হউ্যডি কি "অ্যায় বাবা, ম্যাঙ কিশি শ্যায়য়োরুম।"
তিনি বললেন, "বাবা, আমাদের একটা গরু আছে; এই গরুটা নাও এবং এটাকে বিক্রি করে দাও। যা পাবে নিয়ে এসো, সেটা দিয়ে আমরা তোমাকে একটা বউ কিনে দেবো!" hay.dɨ ki "bɒː.ba bi.zym biː sɨ.ɣɨ.ɾɨ.myz vaːɾ, je.tib̥ bo sɨ.ɣɨ.ɾɨ saː.tɨ, naɣd ʃæj.i puˑ.lĩn, jæk biz sæ̃ ki.ʃi al.duq" হউ্যডি কি "বাবা বিজ্যুম বী সিঘিরিম্যুজ় ৰার, ইয়েটিব বো সিঘিরি সাটি। নাঘদ শ্যায়ি পুলিঁন, ইয়্যাক বিজ় স্যাঁ কিষি আলদুক়!"

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. এথ্‌নোলগে খলজ (১৮তম সংস্করণ, ২০১৫)
  2. হ্যামারস্ট্রোম, হারাল্ড; ফোরকেল, রবার্ট; হাস্পেলম্যাথ, মার্টিন, সম্পাদকগণ (২০১৭)। "Turkic Khalaj"গ্লোটোলগ ৩.০ (ইংরেজি ভাষায়)। জেনা, জার্মানি: মানব ইতিহাস বিজ্ঞানের জন্য ম্যাক্স প্লাংক ইনস্টিটিউট। 
  3. এথ্‌নোলগে Khalaj (Iranian) (১৮তম সংস্করণ, ২০১৫)
  4. হ্যামারস্ট্রোম, হারাল্ড; ফোরকেল, রবার্ট; হাস্পেলম্যাথ, মার্টিন, সম্পাদকগণ (২০১৭)। "Khalaj (Iranian)"গ্লোটোলগ ৩.০ (ইংরেজি ভাষায়)। জেনা, জার্মানি: মানব ইতিহাস বিজ্ঞানের জন্য ম্যাক্স প্লাংক ইনস্টিটিউট। 
  5. হামারস্ট্রোম (2015) Ethnologue 16/17 / 18th সংস্করণ: একটি ব্যাপক পর্যালোচনা: অনলাইন পরিশিষ্ট
  6. ক্যিরাল ২০১২, পৃ. ৮৯।
  7. ছ্যুঙ ও আইদেমির ২০১৫, পৃ. ৮০।
  8. "মেহমেত ওলমেজ, হালাশলার বে হালাশশা, তুর্ক কাল্কলার‍্যি বে দিল্লেরিঃ ২, ১৫-২২" (PDF)। ২০১৮-০৮-১৮ তারিখে মূল (PDF) থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২০১৬-১২-০২ 
  9. Щepбак ১৯৯৭, পৃ. ৪৭২।
  10. e.g. Doerfer (1971), Doerfer & Tezcan (1980)

গ্রন্থপঞ্জী[সম্পাদনা]

  • Cheung, Johnny; Aydemir, Hakan (২০১৫), "Turco-Afghanica: On East Iranian *amarnā and Turkic alma, alïmla, almïla 'apple'", Pelevin, Mikhail, На Пастбище Мысли Благой, Сборник статей к юбилею И. М. Стеблин-Каменского, Kontrast, পৃষ্ঠা 73–94 
  • Щepбак, A.M. (১৯৯৭), "Xaлaджcкий язык", Языки мира, Тюркские языки (Russian ভাষায়), Moscow: Изд-во, পৃষ্ঠা 470–476, আইএসবিএন 5-85759-061-2 
  • Frawley, William J. (২০০৩)। International Encyclopedia of Linguistics। Volume 3। Oxford University Press। আইএসবিএন 0195139771 
  • Doerfer, Gerhard; Tezcan, Semih (১৯৯৪)। Folklore-Texte der Chaladsch। Wiesbaden: Harrassowitz। আইএসবিএন 344703484X 
  • Kıral, Filiz (২০১২), "Reflections on –miš in Khalaj", Johanson, Lars; Utas, Bo, Evidentials: Turkic, Iranian and Neighbouring Languages, The Hague: Walter de Gruyter, পৃষ্ঠা 89–102, আইএসবিএন 3110805286 
  • Manaster Ramer, Alexis (১৯৯৫), "Khalaj (and Turkic) vowel lengths revisited", Wiener Zeitschrift für die Kunde des Morgenlandes, 85: 187–197 
  • Dil Edimi Açisindan Halaççanin Konumu, ২০১২ 
  • Doerfer, Gerhard (১৯৭১)। Khalaj Materials। Bloomington, Indiana: Indiana University Publications। আইএসবিএন 0-87750-150-5ওসিএলসি 240052 
  • Doerfer, Gerhard (১৯৯৮)। Grammatik des Chaladsch। Harrassowitz। আইএসবিএন 3-447-02865-3 
  • Johanson, Lars; Csató, Éva Ágnes (১৯৯৮)। The Turkic Languages। Routledge। 
  • Acquiring phonology is not acquiring inventories but contrasts: The loss of Turkic and Korean primary long vowels, ২০০৪ 
  • The Turkish Dialect of the Khalaj, ১৯৪০ 

বহিঃসংযোগ[সম্পাদনা]