চীনা ভাষা

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
(Chinese language থেকে পুনর্নির্দেশিত)
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
চীনা
汉语 হান্‌ উ্য, 中文 চুং ওয়েন্‌
Zhongwen.svg
“চীনা লেখ্য ভাষা” (pinyin: zhōngwén) চীনা লিপিতে লেখা
দেশোদ্ভবগণচীন (চীনের মূল ভূখন্ড, হংকং, মাকাউ), চীন প্রজাতন্ত্র (তাইওয়ান ও নিকটস্থ দ্বীপসমূহ), সিঙ্গাপুর, মালয়েশিয়া, ইন্দোনেশিয়া, থাইল্যান্ড, ভিয়েতনাম, মায়ানমার এবং ক্যাম্বোডিয়া, এছাড়াও জাপান, উত্তর কোরিয়া, দক্ষিণ কোরিয়াফিলিপিন দ্বীপপুঞ্জ-এর অংশবিশেষ এবং বিশ্বের অন্যান্য স্থানে অবস্থিত চীনা জনগোষ্ঠীতে
অঞ্চল(সংখ্যাগরিষ্ঠ): পূর্ব এশিয়া ও দক্ষিণাঞ্চলীয় এশিয়ার অংশবিশেষ
(সংখ্যালঘু): পশ্চিম এশিয়া, উত্তর ও দক্ষিণ আমেরিকা, আফ্রিকা, ইউরোপ ও প্রশান্ত মহাসাগরীয় অঞ্চলে বসবাসকারী চীনা জনগোষ্ঠীসমূহ
মাতৃভাষী
১২০ কোটির বেশি (২০০৪)[১]
চীনা লিপি
সরকারি অবস্থা
সরকারি ভাষা
গণচীন, চীন প্রজাতন্ত্র, সিঙ্গাপুর, জাতিসংঘ
নিয়ন্ত্রক সংস্থাগণচীনে: বিভিন্ন সংস্থা(চীনা ভাষায়)
চীন প্রজাতন্ত্রে: ম্যান্ডারিন প্রোমোশান কাউন্সিল
সিঙ্গাপুরে: প্রোমোট ম্যান্ডারিন কাউন্সিল/স্পিক ম্যান্ডারিন ক্যাম্পেইন [১]
ভাষা কোডসমূহ
আইএসও ৬৩৯-১zh
আইএসও ৬৩৯-২chi (বি)
zho (টি)
আইএসও ৬৩৯-৩বিভিন্ন প্রকার:
cdo – Min Dong
cjy – Jinyu
cmn – Mandarin
cpx – Pu Xian
czh – Huizhou
czo – Min Zhong
dng – Dungan
gan – Gan
hak – Hakka
hsn – Xiang
mnp – Min Bei
nan – Min Nan
wuu – Wu
yue – Yue
Map-Sinophone World.png
বিশ্বে চীনা ভাষাভাষীর অবস্থান

চীনা-তিব্বতীয় ভাষাপরিবারের চীনা শাখার ভাষাসমূহ অনেক সময় চীনা ভাষা নামে পরিচিত। যদিও ম্যান্ডারিন চীনা ভাষাটি গণচীনচীন প্রজাতন্ত্রের (তাইওয়ান) একমাত্র সরকারি ভাষা, কথ্য চীনা ভাষার বিভিন্ন রূপ আছে। ভাষাবিজ্ঞানীদের মতে চীনা ভাষাগোষ্ঠীতে সাত কিংবা দশটি ভাষা (বা উপভাষাগোষ্ঠী) আছে। হান সম্প্রদায়ের অধিকাংশ মানুষ এবং অনেক সংখ্যালঘু সম্প্রদায় এই ভাষায় কথা বলে। বিশ্বের প্রায় ১২০ কোটি মানুষের (পৃথিবীর মোট জনসংখ্যার ১৬%) মাতৃভাষা চীনা।

নাম ফিনিনে ম্যান্ডারিন উচ্চারণ প্রথাগত সরলীকৃত মোট ভাষাভাষী সংখ্যা মন্তব্য
ম্যান্ডারিন Běifānghuà / Guānhuà / Putonghua পেইফ়াংহুয়া / কুয়ান্‌হুয়া / ফুথুংহুয়া 北方话 / 官话 / 普通话 北方話 / 官話 / 普通話 ৮৫০ মিলিয়ন আধুনিক লিখিত চীনা ভাষাসহ
৯০ মিলিয়ন শাংহাই ভাষাসহ
ইউয়ে Yuè উ্যয়ে ৮০ মিলিয়ন ক্যান্টনিজ ভাষাসহ
মিন Mǐn মিন্‌ ৫০ মিলিয়ন তাইওয়ানীয় ভাষা সহ
শিয়াং Xiāng শিয়াং ৩ কোটি ৫০ লক্ষ
খেচিয়া Kèjiā / Kè খ্যচিয়া / খ্য 客家 / 客 客家 / 客 ৩ কোটি ৫০ লক্ষ "হাককা" নামেও পরিচিত
কান Gàn কান্‌ ২ কোটি

অনেক চীনা ভাষাবিজ্ঞানী আরও তিনটি চীনা ভাষার (বা উপভাষাগোষ্ঠী) অস্তিত্ত্বে বিশ্বাস করেন। এগুলি হল:

নাম ফিনিনে ম্যান্ডারিন উচ্চারণ প্রথাগত সরলীকৃত মোট ভাষাভাষী সংখ্যা মন্তব্য
চিন Jìn চিন্‌ ম্যান্ডারিন থেকে পৃথক করা হয়েছে
হুয়েইচৌ Huīzhōuhuà হুয়েইচৌহুয়া 徽州話 徽州话 থেকে পৃথক করা হয়েছে
ফিং Pínghuà ফিংহুয়া 平話 平话 ইউয়ে থেকে পৃথক করা হয়েছে

চীনা ভাষার অনেকগুলি তুলনামূলকভাবে ছোট উপভাষাগোষ্ঠীকে এখনও সঠিকভাবে শ্রেণীকরণ করা হয় নি, যেমন তানচৌ, শিয়াংহুয়া, শাওচৌ, তুংআন, ইত্যাদি।

চীনতাইওয়ানের কথ্য চৈনিক ভাষাসমূহ

স্থানভেদে চীনা ভাষার বহু প্রকারের বৈচিত্র্যের জন্য কিছু ভাষাবিদ এর সঙ্গে একটি ভাষা পরিবারের মিল খোঁজেন। চীনা ভাষার বহু বৈচিত্র্যের জন্য কিছু লোক একে রোমান্স ভাষার সঙ্গে তুলনা করে।

চীনা ভাষার অন্যতম প্রাচীন লেখনি চাঙ বংশ শিলালিপির সময় থেকে পাওয়া যায়, যা ১২৫০ খ্রীষ্টপূর্বে জ্ঞাত হয়েছিল। ১৯৩০ সালে মানক চীনকে গ্রহণ করা হয়েছিল যা বর্তমান তাইওয়ান এবং চিনদেশের রাষ্ট্রীয় ভাষা। বিভাজন

ভাষাবিদরাও একে বিভিন্ন ভাগে ভাগ করতে চেয়েছেন। যেমন:- তিব্বতী ভাষা, চীনা-তিব্বতী এবং বার্মি।

ধ্বনিবিন্যাস[সম্পাদনা]

বিভিন্ন অংশে চীনা ভাষার সুর বিভিন্ন হয় কিন্তু বিশেষত মধ্য চীনের ক্ষেত্রে এটি অধিক তলার স্তরের সুর হয়। কিছু বিদ্যালয়ের চীনা ভাষার অক্ষর ১০০০ করে অধিক পাওয়া গিয়েছিল.[২]

সুর[সম্পাদনা]

রাো দিক থেকে একই থাকা শব্দ কিছুু সুরের জন্য চীনা ভাষায় আলাদা রয় বহন করে[৩][৪] উত্তর চীনের কিছু ভাষায় তিনটি স্বর থাকে, যেখানে নাকি দক্ষিণ চীনে সুর ৬ বা ১২ তা হতেও পারে , সুরের সংখ্যা কোথায় কিভাবে গণনা করে সেই প্রকারের ওপরেও নির্ভর করে।

চীনে সুরের ক্ষেত্রে মানক চীনা ভাষা অন্যতম অধিক প্রয়োগ করা হয়। নিচে দেয়া পাঁচটা চীনা স্বরর দ্বারা একই দেখানো হয়েছে:

মানক চীনা ভাষার সুরের উদাহরণ
আখর পিনয়িন উচ্চতা অর্থ
/ মা উচ্চ স্তর "মাক"
'মা উপরে "ভাং"
/ মা অল্প নিচে এবং উপরে "ঘোঁরা"
/ মা` উপর থেকে নিচে "গালি"
/ মা নিষ্ক্রিয় প্রশ্নের অংশ
কেন্টনিজ ভাষার উদাহরণ
আখর জ্যুত পিং উচ্চতা অর্থ
/ si1 উচ্চ স্তর কবিতা
si2 উপরে ইতিহাস
si3 মধ্য হত্যা করা
/ si4 নিম্নগামী সময়
si5 নিম্নগামী বজার
si6 নিম্ন স্তর হয়
sik1 উচ্চতম স্তর রঙ
/ sik3 মধ্যতম স্তর টিন
sik6 নিম্নতম স্তর খোয়া

বিদেশী ভাষা হিসাবে[সম্পাদনা]

আন্তর্জাতিক স্তরে অর্থব্যবস্থার দিক থেকে মানক চীনা ভাষা বর্তমান আমেরিকা যুক্তরাষ্ট্রের নির্দিষ্ট কিছু বিদ্যালয়ে বিশেষ স্থান পেয়েছে, এবং পাশ্চাত্যে এই ভাষাটি যুব সমাজের মধ্যে বিশেষ আকর্ষণ সৃষ্টি করতে সক্ষম হয়েছে।[৫] কেম্ব্রিজ বিশ্ববিদ্যালয় অনুসারে ১৯৯১ সালে মাত্র ৫০০০ বিদেশী ছাত্র ছাত্রী চীনা ভাষা পরীক্ষা দিয়েছিল কিন্তু এই সংখ্যা ২০০৫এ ১১৭৬৬০ তে বৃদ্ধি হয়।[৬] ২০১০ থেকে ৭৫০০০০ মানুষ এই পরীক্ষা দিয়েছে। ২০১৭ থেকে এই সংখ্যা ৬.৫ মিলিয়ন হয়ে যায়।

আধুনিক ভাষা সংস্থা অনুযায়ী ২০১৫ সালে আমেরিকা যুক্তরাষ্ট্রে ৫৫০ টি প্রাথমিক, মাধ্যমিক এবং উচ্চতর মাধ্যমিক বিদ্যালয় ছিল যা ওই দুই বছরে ১০০% বৃদ্ধির প্রতিনিধিত্ব করে। সেভাবে মহাবিদ্যালয় স্তরে চীনা ভাষার কক্ষের নামাংকন ৫১% পর্যন্ত বৃদ্ধি হয়েছিল। অন্যদিকে ২০১৫ সালে ত্রিশ থেকে পঞ্চাশ হাজার ছাত্র ছাত্রী চীনা ভাষা আমেরিকা যুক্তরাষ্ট্রে শিখেছিল। [৭]

২০১৬ সালে আধা মিলিয়নের অধিক চীনা ছাত্র বিদেশে উচ্চ শিক্ষার জন্য গিয়েছিল, অন্যদিকে চীনেে চার লাখ আন্তরাষ্ট্রীয় ছাত্র উচ্চ শিক্ষার জন্য এসেছিল। চিংহুবা বিশ্ববিদ্যালয়ে এক বছরে ১১৬ টি দেশের প্রায় ৩৫ হাজার ছাত্রকে গ্রহণ করে।[৮] দ্বিতীয় ভাষা হিসাবে চীনা ভাষার দাবী বেড়ে চলেছে। চীনা শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের মতে, বিশ্ব স্তরে চীনা ভাষা শেখার জন্য ৩৩০ টা সংস্থা আছে। চীনের শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের সর্বজনীন সংস্থা বিভিন্ন বামপন্থী সংস্থার জন্ম দিয়ে চীনা ভাষা, সাহিত্যের বিকাশ এবং বিদেশে থাকা চীনা সকলের শিক্ষার জন্য কাজ করেছে। ২০১৪ থেকে এমন ৪৮০এরও অধিক বামপন্থী সংস্থা ছিল।

বহিঃসংযোগ[সম্পাদনা]

  • Hannas, William C. (১৯৯৭), Asia's Orthographic Dilemma, University of Hawaii Press, আইএসবিএন 978-0-8248-1892-0. 
  • Qiu, Xigui (২০০০), Chinese Writing, trans. Gilbert Louis Mattos and Jerry Norman (sinologist), Society for the Study of Early China and Institute of East Asian Studies, University of California , Berkeley, আইএসবিএন 978-1-55729-071-7.  অজানা প্যারামিটার |1= উপেক্ষা করা হয়েছে (সাহায্য)
  • R. L. G. "Language borrowing Why so little Chinese in English?" The Economist . 6 June 2013.
  • Huang, Cheng-Teh James; Li, Yen-Hui Audrey; Li, Yafei (২০০৯), The Syntax of Chinese, Cambridge Syntax Guides, Cambridge: Cambridge University Press, doi:10.1017/CBO9781139166935, আইএসবিএন 978-0-521-59958-0  অজানা প্যারামিটার |posttscript= উপেক্ষা করা হয়েছে (সাহায্য)

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. Chinese Academy of Social Sciences (2012), p. 3.
  2. DeFrancis,1984,p.42, counts Chinese as having 1,277 tonal syllables, and about 398 to 418 if tones are disregarded; he cites Jespersen, Otto (1928) Monosyllabism in English; London, p. 15 for a count of over 8000 syllables for English
  3. Norman 1988,p.52A...A word pronounced in a wrong tone or inaccurate tone sounds as puzzling as if one said bud in English, meaning 'not good' or 'the thing one sleeps in.'"
  4. Chao 1948,p.24
  5. "How hard is it to learn Chinese?"BBC News। ১৭ জানুয়ারি ২০০৬। সংগ্রহের তারিখ ২৮ এপ্রিল ২০১০ 
  6. (চীনা) "汉语水平考试中心:2005年外国考生总人数近12万",Gov.cn Xinhua News Agency, 16 January 2006.
  7. "Chinese as a second language growing in popularity"CGTN America। ২০১৫-০৩-০৩। সংগ্রহের তারিখ ২০১৭-০৭-২৯ 
  8. "China is third most popular destination for international students"CGTN America। ২০১৭-০৩-১৮। সংগ্রহের তারিখ ২০১৭-০৭-২৯