ইয়োজুয়া কিমিশ

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
(জশুয়া কিমিচ থেকে পুনর্নির্দেশিত)
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
ইয়োজুয়া কিমিশ
20180602 FIFA Friendly Match Austria vs. Germany Joshua Kimmich 850 0717.jpg
২০১৮ সালে জার্মানির হয়ে কিমিশ
ব্যক্তিগত তথ্য
পূর্ণ নাম ইয়োজুয়া ওয়াল্টার কিমিশ[১]
জন্ম (1995-02-08) ৮ ফেব্রুয়ারি ১৯৯৫ (বয়স ২৫)[২]
জন্ম স্থান রটভেইল, জার্মানি[৩]
উচ্চতা ১.৭৬ মিটার (৫ ফুট   ইঞ্চি)[৪]
মাঠে অবস্থান মধ্যভাগের খেলোয়াড়[৫][৬]
ক্লাবের তথ্য
বর্তমান ক্লাব
বায়ার্ন মিউনিখ
জার্সি নম্বর ৩২
যুব পর্যায়
0000–২০০৭ ভিএফবি বসিঙেন
২০০৭–২০১৩ ভিএফবি স্টুটগার্ট
জ্যেষ্ঠ পর্যায়*
সাল দল ম্যাচ (গোল)
২০১৩–২০১৫ আরবি লাইপৎসিশ ৫৩ (৩)
২০১৫– বায়ার্ন মিউনিখ ১৪৬ (১২)
জাতীয় দল
২০১১ জার্মানি অনূর্ধ্ব-১৭ (০)
২০১৩ জার্মানি অনূর্ধ্ব-১৮ (০)
২০১৩–২০১৪ জার্মানি অনূর্ধ্ব-১৯ (১)
২০১৪–২০১৫ জার্মানি অনূর্ধ্ব-২১ ১৪ (২)
২০১৬– জার্মানি ৪৮ (৩)
* শুধুমাত্র ঘরোয়া লীগে ক্লাবের হয়ে ম্যাচ ও গোলসংখ্যা গণনা করা হয়েছে এবং ০৩:৪৭, ৫ জুলাই ২০২০ (ইউটিসি) তারিখ অনুযায়ী সকল তথ্য সঠিক।
‡ জাতীয় দলের হয়ে ম্যাচ ও গোলসংখ্যা ০৩:৪৭, ৫ জুলাই ২০২০ (ইউটিসি) তারিখ অনুযায়ী সঠিক।

ইয়োজুয়া ওয়াল্টার কিমিশ (জার্মান উচ্চারণ: [ˈjoːzu̯aː ˈkɪmɪç], ইংরেজি: Joshua Kimmich;[৭] জন্ম: ৮ ফেব্রুয়ারি ১৯৯৫; ইয়োজুয়া কিমিশ নামে সুপরিচিত) হলেন একজন জার্মান পেশাদার ফুটবল খেলোয়াড়। তিনি বর্তমানে জার্মানির পেশাদার ফুটবল লীগের শীর্ষ স্তর বুন্দেসলিগার ক্লাব বায়ার্ন মিউনিখ এবং জার্মানি জাতীয় ফুটবল দলের হয়ে একজন মধ্যভাগের খেলোয়াড় হিসেবে খেলেন। তিনি মূলত একজন রক্ষণাত্মক মধ্যভাগের খেলোয়াড় হিসেবে খেললেও মাঝেমধ্যে কেন্দ্রীয় মধ্যভাগের খেলোয়াড় অথবা বাম পার্শ্বীয় রক্ষণভাগের খেলোয়াড় হিসেবে খেলে থাকেন।

জার্মান ফুটবল ক্লাব ভিএফবি বসিঙেনের যুব পর্যায়ের হয়ে খেলার মাধ্যমে কিমিশ ফুটবল জগতে প্রবেশ করেন; অতঃপর তিনি ভিএফবি স্টুটগার্টে যুব পর্যায়ের হয়ে খেলার মাধ্যমে ফুটবল খেলায় বিকশিত হয়েছেন। ২০১৩–১৪ মৌসুমে, আরবি লাইপৎসিশের হয়ে খেলার মাধ্যমে তিনি তার জ্যেষ্ঠ পর্যায়ের খেলোয়াড়ী জীবন শুরু করেন। লাইপৎসিশে তিনি ২ মৌসুম অতিবাহিত করেছেন; যেখানে তিনি ৫৩ ম্যাচে ৩টি গোল করেছেন। ২০১৫–১৬ মৌসুমে, তিনি ৮.৫০ মিলিয়ন ইউরোর বিনিময়ে আরবি লাইপৎসিশ হতে বায়ার্ন মিউনিখে যোগদান করেছেন।

দলগতভাবে, ঘরোয়া ফুটবলে, কিমিশ এপর্যন্ত ১১টি শিরোপা জয়লাভ করেছেন, যার সবগুলো তিনি বায়ার্ন মিউনিখের হয়ে জয়লাভ করেছেন। অন্যদিকে আন্তর্জাতিক প্রতিযোগিতায়, এপর্যন্ত ২টি শিরোপা জয়লাভ করেছেন; যার মধ্যে ২০১৭ ফিফা কনফেডারেশন্স কাপ অন্যতম।

ক্লাব কর্মজীবন[সম্পাদনা]

প্রাথমিক খেলোয়াড়ী কর্মজীবন[সম্পাদনা]

কিমিশ, জার্মান ক্লাব ভিএফবি স্টাটগার্ট এর হয়ে কিশোর বয়সে ফুটবল খেলেন, পরবর্তীতে ২০১৩ সালের জুলাই মাসে আরেক জার্মান ক্লাব আরবি লেইপজিগ-এ যোগ দেওয়ার আগ পযন্ত। স্টাগার্ট তাকে আবারো কেনার জন্য আরেকটি পন্থা খুজে নেয়। [৮] তিনি একই বছরের ২৮শে সেপ্টেম্বর জার্মানির তৃতীয় বিভাগীয় লিগ থ্রী. লিগা-তে তার ক্লাবের অভিষিক্ত হন, যেখানে তিনি তার দলের হয়ে খেলা ব্রাজিলিয়ান ফুটবলার থিয়াগো রকেনব্যাচ এর পরিবর্তে মাঠে নামেন, সে ম্যাচটিতে তার ক্লাব আরেক জার্মান ক্লাব এসপিভিজিজি আন্টারহ্যাচিং-এর বিপক্ষে ২-২ গোলে ড্র করে। ২০১৩ সালের ৩০শে নভেম্বর, তিনি তার প্রথম পেশাদার গোল করেন, যেখানে তার দল ১.এফসি সারব্রুকেন এর বিপক্ষে ৩-২ গোলের ব্যবধানে জয় পায়।[৯]

বায়ার্ন মিউনিখের সাথে প্রশিক্ষনকালে কিমিশ

আন্তর্জাতিক খেলোয়াড়ী জীবন[সম্পাদনা]

২০১৭ সালের ১৭ই মে, ২০১৭ ফিফা কনফেডারেশন্স কাপ এর জন্য, দলের বর্তমান প্রধান কোচ ইওয়াখিম ল্যোভ-এর করা দলের একজন খেলোয়াড়দের মধ্যে একজন ছিলেন। টুর্নামেন্টটিতে তিনি দলের পাচঁটি খেলার সবকয়টিতে তিনি প্রথমার্ধের সেরা এগারোর হয়ে শুরু করেন, যেখানে তিনি দুটি এসিস্ট করেন (দুটি গোল করতে সহায়তা করেন), সেভাবে জার্মানি তাদের ইতিহাসে প্রথম কনফেডারেশন্স কাপের শিরোপা জিতে নেয়। [১০]

খেলার ধরণ[সম্পাদনা]

কিমিশ নিজেই তার অনুপ্রেরণা হিসেবে জার্মান মিডফিল্ডার বাস্তিয়ান শোয়েনস্টেইগার-এর নাম নিদৃষ্ট করেন।[১১]

কর্মজীবনের পরিসংখ্যান[সম্পাদনা]

ক্লাব[সম্পাদনা]

২০১৭ সালের ২০শে ডিসেম্বররের ম্যাচ পর্যন্ত হালনাগাদকৃত।
ক্লাব সিজন লিগ কাপ মহাদেশীয় অন্যান্য সর্বমোট তথ্যসূত্র
লিগ উপস্থিতি গোল উপস্থিতি গোল উপস্থিতি গোল উপস্থিতি গোল উপস্থিতি গোল
আরবি লেইপজিগ ২০১৩–১৪ থ্রী. লিগা ২৬ ২৬ [১২]
২০১৪–১৫ ২. বুন্দেসলিগা ২৭ ২৯ [১৩]
সর্বমোট ৫৩ ৫৫
বায়ার্ন মিউনিখ ২০১৫–১৬ বুন্দেসলিগা ২৩ ৩৬ [১৪]
২০১৬–১৭ ২৭ ৪০ [১৫][১৬]
২০১৭–১৮ ১৭ ২৭ [১৭][১৮]
সর্বমোট ৬৭ ১১ ২৩ ১০৩ ১২
খেলোয়াড়ী জীবনে সর্বমোট ১২০ ১১ ১৩ ২৩ ১৫৮ ১৫

আন্তর্জাতিক[সম্পাদনা]

২৯শে নভেম্বর ২০১৭ পর্যন্ত হালনাগাদকৃত।[১৯]
জাতীয় দল সাল উপস্থিতি গোল
জার্মানি
২০১৬ ১১
২০১৭ ১৪
সর্বমোট ২৫

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. "FIFA World Cup Russia 2018: List of Players: Germany" (PDF)। FIFA। ১৫ জুলাই ২০১৮। পৃষ্ঠা 12। ৬ ডিসেম্বর ২০১৯ তারিখে মূল (PDF) থেকে আর্কাইভ করা। 
  2. "Joshua Kimmich: Overview"। ESPN। সংগ্রহের তারিখ ২৮ জুন ২০২০ 
  3. "Joshua Kimmich: Profile"worldfootball.net। HEIM:SPIEL। সংগ্রহের তারিখ ২৮ জুন ২০২০ 
  4. "Joshua Kimmich"। FC Bayern Munich। সংগ্রহের তারিখ ২৮ জুন ২০২০ 
  5. "Kimmich unhappy with Bayern bench duty"The World Game। Special Broadcasting Service। সংগ্রহের তারিখ ১২ মার্চ ২০১৭ 
  6. Reeves, Bernie। "Is Bayern Munich utility man Joshua Kimmich the most versatile player in world football?"Bundesliga। Bundesliga। সংগ্রহের তারিখ ১১ সেপ্টেম্বর ২০১৮ 
  7. FC Bayern Munich (৬ সেপ্টেম্বর ২০১৬)। "Internationals back in Bayern training"YouTube (জার্মান ভাষায়)। সংগ্রহের তারিখ ৮ নভেম্বর ২০১৮ 
  8. "Gold for Werner, silver for Kimmich"vfb.com। VfB Stuttgart। ১৫ জুলাই ২০১৩। ৪ মার্চ ২০১৬ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ৩১ জুলাই ২০১৪VfB have secured a re-purchase option for Kimmich at the end of his stint in Leipzig. 
  9. "1. FC Saarbrücken – RB Leipzig" (German ভাষায়)। mdr.de। সংগ্রহের তারিখ ১ ডিসেম্বর ২০১৩ .
  10. "Joshua Kimmich"RT। ৫ ডিসেম্বর ২০১৭ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ৪ জুলাই ২০১৭ 
  11. উদ্ধৃতি ত্রুটি: অবৈধ <ref> ট্যাগ; WK নামের সূত্রের জন্য কোন লেখা প্রদান করা হয়নি
  12. "Joshua Kimmich"kicker.de (German ভাষায়)। kicker। ৪ মার্চ ২০১৬ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ১০ জানুয়ারি ২০১৫ 
  13. "Joshua Kimmich"kicker.de (German ভাষায়)। kicker। ৭ মার্চ ২০১৬ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ১ জুলাই ২০১৫ 
  14. উদ্ধৃতি ত্রুটি: অবৈধ <ref> ট্যাগ; 2015–16 season নামের সূত্রের জন্য কোন লেখা প্রদান করা হয়নি
  15. উদ্ধৃতি ত্রুটি: অবৈধ <ref> ট্যাগ; Im zweiten Anlauf: Vidal beschert Bayern den ersten Titel নামের সূত্রের জন্য কোন লেখা প্রদান করা হয়নি
  16. "Joshua Kimmich"kicker.de (জার্মান ভাষায়)। সংগ্রহের তারিখ ২০ মে ২০১৭ 
  17. "Bayerns erster Titel dank Flippertor und Ulreich"kicker.de (জার্মান ভাষায়)। ৫ আগস্ট ২০১৭। সংগ্রহের তারিখ ৫ আগস্ট ২০১৭ 
  18. "Joshua Kimmich"kicker.de (জার্মান ভাষায়)। সংগ্রহের তারিখ ২০ ডিসেম্বর ২০১৭ 
  19. ন্যাশনাল-ফুটবল-টিমস.কমে "Joshua Kimmich" (ইংরেজি ভাষায়)। জাতীয় ফুটবল দল। সংগ্রহের তারিখ ১৩ জুলাই ২০১৪ 

বহিঃসংযোগ[সম্পাদনা]