একাত্তর টিভি

এই পাতাটি অর্ধ-সুরক্ষিত। শুধুমাত্র নিবন্ধিত ব্যবহারকারীরাই সম্পাদনা করতে পারবেন।
উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
একাত্তর টেলিভিশন
একাত্তর টিভি.svg
উদ্বোধন২১ জুন ২০১২
স্লোগানসংবাদ নয় সংযোগ
দেশবাংলাদেশ
ভাষাবাংলা
প্রচারের স্থানজাতীয়
প্রধান কার্যালয়৫৭, সোহরাওয়ার্দ্দী এভিনিউ বারিধারা, ঢাকা- ১২১২
ওয়েবসাইটএকাত্তর টিভি
স্ট্রিমিং মিডিয়া
বঙ্গ বিডিhttps://bongobd.com/channel/ekattor-tv

একাত্তর টিভি বাংলাদেশের একটি টেলিভিশন চ্যানেল। ২০১২ সালের ২১ জুন এটি পূর্ণাঙ্গ কার্যক্রম শুরু করে। এটি দেশের সংবাদ ভিক্তিক চ্যানেল[১] যার স্লোগান হল "সংবাদ নয় সংযোগ"। চ্যানেলটির সদরদপ্তর ৫৭, সোহরাওয়ার্দী অ্যাভিনিউ বারিধারায় অবস্থিত।

মালিকানা

২০০৯ এর রাজনৈতিক ক্ষমতা বদলের পরে মোজাম্মেল হোসেন নিজের ও আত্মীয়স্বজনের মালিকানাধীন অংশের অর্ধেক বিক্রি করে দেন মেঘনা গ্রুপের মোস্তফা কামাল ও তার এক ছেলে, দুই মেয়ের নামে।[২] দুই মেয়ে তানভীর ফুড লিমিটেড ও ইউনাইটেড সল্ট ইন্ডাস্ট্রিজের প্রতিনিধিত্ব করছিল।

অনুষ্ঠানসমূহ

  • একাত্তর মঞ্চ
  • একাত্তর জার্নাল
  • খেড়কথা
  • সংবাদ সংযোগ
  • প্রাণ প্রকৃতি
  • বিনোদন কারখানা
  • জয়তু
  • রান-ওয়ে
  • একাত্তর সামীকরণ
  • অর্থযোগ
  • বাংলাদেশ সংযোগ
  • বিশ্বযোগ
  • গোল টেবিল
  • খেলাযোগ

বিতর্ক

২০১৫ সালে ‘একাত্তর জার্নাল’ নামক অনুষ্ঠানে সে সময়ে বিচারাধীন এক মামলা নিয়ে প্রধান বিচারপতির সঙ্গে অন্য এক বিচারপতির কথোপকথন সংক্রান্ত খবর প্রচারিত হয় ও আলোচনা হয়। পরে সুপ্রিম কোর্টের আপিল বিভাগ অনুষ্ঠানের সিডি আদালতে জমা দেয়ার নির্দেশ দেয়। অ্যাটর্নি জেনারেল মাহবুবে আলম একাত্তর টিভি প্রধান বিচারপতির কথোপকথনের অডিও প্রচার করে আদালত অবমাননা করেছে বলে মন্তব্য করেন।[৩][৪] ২০২০ সালে হলুদ সাংবাদিকতার অভিযোগ এনে একাত্তর টিভিকে বয়কটের ডাক দেন ডাকসুর সাবেক ভিপি নুরুল হক নুর[৫] ও খ্যাতনামা কয়েকজন বাংলাদেশি ইসলামি পণ্ডিত।[৬] পরবর্তীতে গণহারে একাত্তর টিভির ফেসবুক পাতা অননুসরণ করা শুরু হয়। একটি অনুুুষ্ঠানে একাত্তর টিভির উপস্থাপিকা মিথিলা ফারজানা মসজিদকে জমি দখলের প্রথম কাজ বলে উল্লেখ করেন।[৭]

পুরস্কার

২০২২ সালে 'ভোক্তা অধিকার সাংবাদিকতা পুরস্কার - ২০২২' পান একাত্তর টিভির নিজস্ব প্রতিবেদক সাজিদ সরকার সহ ভোক্তা অধিকার বিষয়ক প্রতিবেদনকারী বেশ কিছু সাংবাদিক।[৮]

আরও দেখুন

তথ্যসূত্র

  1. "পূর্ণাঙ্গ সমপ্রচারে একাত্তর টিভি"। বিডি সংবাদ টুয়েন্টিফোর ডটকম। জুন ২১, ২০১২। ২১ জুন ২০১৪ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২১ জুন ২০১৪ 
  2. প্রতিবেদক, নিজস্ব। "বিক্রি হয়ে যাচ্ছে টিভি চ্যানেলের মালিকানা"Prothomalo। সংগ্রহের তারিখ ২০২২-০৪-১১ 
  3. "একাত্তর টিভি আদালত অবমাননা করেছে: এটর্নি জেনারেল"। দৈনিক মানব জমিন। 
  4. "একাত্তর টিভি আদালত অবমাননা করেছে: অ্যাটর্নি জেনারেল"channelionline.com। ১১ আগস্ট ২০১৫। 
  5. "নূরের একাত্তর টিভি বর্জন, একাত্তরের মিথ্যাচারের অভিযোগ"dw.com। সংগ্রহের তারিখ ২০২০-১১-০৭ 
  6. ডেস্ক, ইনকিলাব। "একাত্তর টিভিকে বয়কট করুন"দৈনিক ইনকিলাব। সংগ্রহের তারিখ ২০২০-১১-০৭ 
  7. রিপোর্টার, স্টাফ। "মসজিদ নিয়ে অবমাননাকর মন্তব্যের দায়ে একাত্তর টিভির উপস্থাপিকা মিথিলা ফারজানাকে লিগ্যাল নোটিশ"দৈনিক ইনকিলাব। সংগ্রহের তারিখ ২০২০-১১-০৭ 
  8. ফয়সাল, জুবায়ের। "ভোক্তা অধিকার সাংবাদিকতা পুরস্কার পেলেন সময় টিভির জুবায়ের ফয়সাল | বাংলাদেশ"সময় নিউজ। সংগ্রহের তারিখ ২০২২-০৪-১১ 

বহিঃসংযোগ