১৯৮১-৮২ ইংল্যান্ড ক্রিকেট দলের শ্রীলঙ্কা সফর

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
১৯৮১-৮২ ইংল্যান্ড ক্রিকেট দলের শ্রীলঙ্কা সফর
Flag of England.svg
ইংল্যান্ড
Flag of Sri Lanka.svg
শ্রীলঙ্কা
তারিখ ১৭ ফেব্রুয়ারি, ১৯৮২ – ২১ ফেব্রুয়ারি, ১৯৮২
অধিনায়ক কিথ ফ্লেচার বান্দুলা ওয়ার্নাপুরা
টেস্ট সিরিজ
ফলাফল ১-ম্যাচের সিরিজ ইংল্যান্ড ১–০ তে জয়ী হয়
সর্বাধিক রান ডেভিড গাওয়ার ১৩১ রয় ডায়াস ৭৭
সর্বাধিক উইকেট ডেরেক আন্ডারউড অশান্ত ডিমেল
একদিনের আন্তর্জাতিক সিরিজ
ফলাফল ২-ম্যাচের সিরিজ ১–১ এ ড্র হয়
সর্বাধিক রান গ্রাহাম গুচ ১৩৮ সিদাথ ওয়েতিমুনি ১৩২
সর্বাধিক উইকেট ইয়ান বোথাম অশান্ত ডিমেল

ইংল্যান্ড ক্রিকেট দল পূর্ব-নির্ধারিত সময়সূচী মোতাবেক ফেব্রুয়ারি, ১৯৮২ সালে শ্রীলঙ্কা গমন করে। এ সফরে দুইটি একদিনের আন্তর্জাতিক ও একটি টেস্ট খেলা অন্তর্ভুক্ত ছিল। ঐ বছরের পূর্বে শ্রীলঙ্কা দল টেস্ট খেলার মর্যাদা পায়। এটিই তাদের প্রথম টেস্ট খেলায় অংশগ্রহণ ছিল। এ উপলক্ষ্যে শ্রীলঙ্কায় ব্যাপক উৎসাহ উদ্দীপনার সৃষ্টি হয়। স্মারকসূচক স্ট্যাম্প ও মুদ্রা প্রকাশ করা হয়।

ইংল্যান্ড প্রথম ওডিআইয়ে জয়লাভ করে ও দ্বিতীয় খেলায় স্বাগতিক দল জয় পেলে শ্রীলঙ্কাবাসী আনন্দের জোয়ারে মেতে উঠে। এছাড়াও শ্রীলঙ্কা দল একমাত্র টেস্টে বেশ ভালো খেলে। কিন্তু, চূড়ান্ত দিনে ব্যাটিং মেরুদণ্ড ভেঙে পড়লে সফরকারী ইংরেজ দল ৭ উইকেট জয় তুলে নেয়।

প্রেক্ষাপট[সম্পাদনা]

১৯৮১ সালে শ্রীলঙ্কা দল আন্তর্জাতিক ক্রিকেট কাউন্সিলের (আইসিসি) পূর্ণাঙ্গ সদস্যের মর্যাদাপ্রাপ্ত হয়। এরফলে দলটি অষ্টম টেস্ট দলে পরিণত হয়।[১]

ফেব্রুয়ারি, ১৯৮২ সালে অনুষ্ঠিত ঐ টেস্টটি উদ্বোধনী টেস্টরূপে পরিগণিত হয়। ফলশ্রুতিতে, এ সফরকে ঘিরে শ্রীলঙ্কায় বেশ প্রাণচাঞ্চল্যের সৃষ্টি হয়। স্মারকসূচক স্ট্যাম্প ও মুদ্রা প্রকাশ করা হয়। উৎসবের আয়োজন করা হয়। এমনকি খেলার দিন দোকানপাট ও ব্যবসা-প্রতিষ্ঠান বন্ধ রাখার পরিকল্পনা নেয়া হয়েছিল। বেশ কয়েকটি মাঠকে সুসজ্জিত করাসহ আধুনিকায়ন করা হয়। দ্বিতীয় একদিনের খেলায় শ্রীলঙ্কা জয় পেলে দর্শকেরা পিচে এলাকায় ঢুকে পড়ে ও স্ট্যান্ডে আতশবাজি পুড়ায়। সারারাত উৎসব মুখরিত পরিবেশ বিরাজ থাকে। তবে, প্রত্যাশার তুলনায় টেস্টে দর্শক সমাগম তুলনামূলকভাবে কম হয়েছিল। খেলার শুরুতে প্রায় ১০০০০ দর্শকের সমাগম হয়। এরজন্যে মূলতঃ উচ্চমূল্যের টিকিট বিক্রয় ও টেলিভিশনে সম্প্রচারজনিত কারণে হয়েছিল। এ উপলক্ষ্যে রাষ্ট্রপতি জে. আর. জয়েবর্ধনে ও সরকারের কয়েকজন মন্ত্রী উপস্থিত ছিলেন।[২]

ভারত সফর শেষে এ দ্বীপপুঞ্জে পদার্পণ করে ইংরেজ দল। ৯ ফেব্রুয়ারি, ১৯৮২ তারিখে শ্রীলঙ্কা বোর্ড সভাপতি একাদশের বিপক্ষে তিনদিনের খেলায় অংশ নেয়। ক্যান্ডির অ্যাসগিরিয়া স্টেডিয়ামে খেলাটি অনুষ্ঠিত হয় ও ড্রয়ে পরিণত হয়েছিল।[৩] পরবর্তীকালে, ২০০৬ সালে প্রথম টেস্টে অংশগ্রহণের ২৫তম বর্ষপূর্তি উপলক্ষ্যে শ্রীলঙ্কায় উৎসবের আয়োজন করা হয়।[৪]

ওডিআই সিরিজ[সম্পাদনা]

প্রথম ওডিআই[সম্পাদনা]

১৩ ফেব্রুয়ারি, ১৯৮২
স্কোরকার্ড
ইংল্যান্ড 
২১১ (৪৪.৪ ওভার)
 শ্রীলঙ্কা
২০৬/৮ (৪৫ ওভার)
গ্রাহাম গুচ ৬৪ (১০৭)
অশান্ত ডিমেল ৪/৩৪ (৮.৪ ওভার)
অনূঢ়া রাণাসিংহে ৫১ (৪১)
বব উইলিস ২/৩২ (৯ ওভার)
  • শ্রীলঙ্কা টসে জয়লাভ করে ফিল্ডিংয়ের সিদ্ধান্ত নেয়।

দ্বিতীয় ওডিআই[সম্পাদনা]

১৪ ফেব্রুয়ারি, ১৯৮২
স্কোরকার্ড
শ্রীলঙ্কা 
২১৫/৭ (৪৫ ওভার)
 ইংল্যান্ড
২১২ (৪৪.৫ ওভার)
গ্রাহাম গুচ ৭৪ (৮৫)
অশান্ত ডিমেল ২/১৪ (৮.৫ ওভার)
  • ইংল্যান্ড টসে জয়লাভ করে ফিল্ডিংয়ের সিদ্ধান্ত নেয়।

টেস্ট সিরিজ[সম্পাদনা]

একমাত্র টেস্ট[সম্পাদনা]

১৭-২১ ফেব্রুয়ারি, ১৯৮২
স্কোরকার্ড
২১৮ (৮১.৫ ওভার)
রঞ্জন মাদুগালে ৬৫ (*২৪৬)
ডেরেক আন্ডারউড ৫/২৮ (১৮ ওভার)
২২৩ (৮৬.৫ ওভার)
ডেভিড গাওয়ার ৮৯ (২৫৬)
অশান্ত ডিমেল ৪/৭০ (১৭ ওভার)
১৭৫ (৮৩.৫ ওভার)
রয় ডায়াস ৭৭ (১৬১)
জন এম্বুরি ৬/৩৩ (২৫ ওভার)
১৭১/৩ (৫৮.১ ওভার)
ক্রিস টাভারে ৮৫ (২২০)
অজিত ডি সিলভা ২/৪৬ (১৭ ওভার)
ইংল্যান্ড ৭ উইকেটে বিজয়ী
পাইকিয়াসোথি সারাভানামুত্তু স্টেডিয়াম, কলম্বো
আম্পায়ার: হার্বি ফেলসিঙ্গারকে. টি. ফ্রান্সিস
ম্যাচসেরা: জন এম্বুরি (ইংল্যান্ড)

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. "Sri Lanka: Member profile"। International Cricket Council। ২৫ নভেম্বর ২০১০ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ৩ এপ্রিল ২০১০ 
  2. Williamson, Martin। "The birth of a nation"। Cricinfo.com। ৪ মার্চ ২০১০ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ৩ এপ্রিল ২০১০ 
  3. "Sri Lanka Board President's XI v England XI (1981/82)"। Cricket Archive। সংগ্রহের তারিখ ৩ এপ্রিল ২০১০ 
  4. Thawfeeq, Sa'adi (৩১ জুলাই ২০০৬)। "Sri Lanka to celebrate 25 years of ICC full membership"। Cricinfo.com। সংগ্রহের তারিখ ৩ এপ্রিল ২০১০ 

বহিঃসংযোগ[সম্পাদনা]