পতিসর রবীন্দ্র কাছারি বাড়ি ও তৎসংলগ্ন কীর্তিসমূহ

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
পতিসর রবীন্দ্র কুঠিবাড়ি
পতিসর রবীন্দ্র কাচারী বাড়ির মূল ফটকের ছবি
পতিসর রবীন্দ্র কাচারী বাড়ির মূল ফটক
সাধারণ তথ্য
অবস্থানআত্রাই, নওগাঁ
শহরনওগাঁ জেলা
দেশবাংলাদেশ
স্থানাঙ্ক২৪°৩৭′০০.৮″ উত্তর ৮৯°০৫′২১.৮″ পূর্ব / ২৪.৬১৬৮৮৯° উত্তর ৮৯.০৮৯৩৮৯° পূর্ব / 24.616889; 89.089389স্থানাঙ্ক: ২৪°৩৭′০০.৮″ উত্তর ৮৯°০৫′২১.৮″ পূর্ব / ২৪.৬১৬৮৮৯° উত্তর ৮৯.০৮৯৩৮৯° পূর্ব / 24.616889; 89.089389
স্বত্বাধিকারীবাংলাদেশ প্রত্নতত্ত্ব অধিদপ্তর
যে কারণে পরিচিতরবীন্দ্র কাচারী বাড়ি

পতিসর রবীন্দ্র কাচারী বাড়িটি নওগাঁ জেলার আত্রাই উপজেলায় অবস্থিত বাংলাদেশের অন্যতম একটি সংরক্ষিত পুরাকীর্তি ও বিশ্বকবি রবীন্দ্রনাথ ঠাকুরের স্মৃতি বিজড়িত স্থান।[১][২][৩] এটি উপজেলার পতিসর নামক গ্রামে নাগর নদীর তীরে অবস্থিত।[৪]

ইতিহাস[সম্পাদনা]

রবীন্দ্রনাথ ঠাকুরের পিতামহ ও জোড়াসাঁকোর ঠাকুর পরিবারের অন্যতম সদস্য দ্বারকানাথ ঠাকুর এ অঞ্চলের জমিদারি ১৮৩০ সালে কেনার পর ১৮৯০ সালে রবীন্দ্রনাথ জমিদারি দেখাশোনার জন্য এ অঞ্চলে আসেন।[২] এই কাচারীতে অবস্থানকালে রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর বেশ কিছু কাব্য, গল্প ও প্রবন্ধ রচনা করেন। এই স্থানটির চারপাশেই রবি ঠাকুরের পরিবার কর্তৃক স্থাপিত বেশ কিছু স্থাপনা রয়েছে। এর মধ্যে উল্লেখযোগ্য হল, একটি বিদ্যালয়(কালীগ্রাম রথীন্দ্রনাথ ইন্সটিটিউশন), দাতব্য হাসপাতাল ও পুরাতন একটি কৃষি ব্যাংক যা ১৯০৫ সালে স্থাপিত হয়েছিল। এছাড়াও গড়ে তুলেছিলেন মৃৎশিল্প।[৪]

রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর নোবেল প্রাপ্তির পর সর্বশেষ ১৯৩৭ সালে পতিসরে আসেন।[২] বর্তমানে এখানে, রবীন্দ্রনাথের জন্মদিন ও মৃত্যুবার্ষিকীতে বিভিন্ন অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়।

পতিসর কাছারি বাড়িতে থাকাকালীন সময়ে রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর গোরাঘরে বাহিরে উপন্যাস এবং বিদায় অভিশাপ কাব্য রচনা করেন। তিনি প্রতিহিংসা, ঠাকুরদা এবং ভারতবাসী প্রবন্ধও এই সময়েই রচনা করেন।[৪][৫]

অবকাঠামো[সম্পাদনা]

পতিসরের স্থাপনাগুলো দেখতে অনেকটাই শিলাইদহ ও শাহজাদপুরের একই পরিবার কর্তৃক স্থাপিত স্থাপনাসমূহের মতোই। এখানে একটি দো-তলা কুঠিবাড়ি রয়েছে। এছাড়াও কুঠিবাড়ি ঘিরে বেশ কিছু ভবন রয়েছে যেগুলোর ধ্বংসাবশেষ দেখতে পাওয়া যায়। কাচারী বাড়ির পাশেই রয়েছে একটি পুকুর। পূর্বে পুকুরটি বেশ বড় থাকলেও কালক্রমে এটির মাটি ভরাট হয়ে গিয়েছে।

মূল ভবনের সামনেই রয়েছে রবীন্দ্রনাথ ঠাকুরের একটি আবক্ষ মূর্তি। এছাড়াও ভবনে প্রবেশের জন্য রয়েছে নান্দনিক একটি প্রবেশপথ।[৩][৪]

চিত্রশালা[সম্পাদনা]

আরও দেখুন[সম্পাদনা]

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. "পতিসর - বাংলাপিডিয়া" 
  2. "রবীন্দ্রনাথের জন্মবার্ষিকীর অনুষ্ঠানে কাল পতিসরে যাচ্ছেন রাষ্ট্রপতি"প্রথম আলো। ৭ মে ২০১৭। সংগ্রহের তারিখ ১৭ জুন ২০২০ 
  3. "রবীন্দ্র ভুবনে পতিসর"The Daily Star। ২০১৭-০৪-২৪। সংগ্রহের তারিখ ২০২০-০৬-১৭ 
  4. "নওগাঁর পতিসর কাছারিবাড়ী"বাংলাদেশ প্রতিদিন। ২৯ ডিসেম্বর ২০১৮। সংগ্রহের তারিখ ১৮ জুন ২০২০ 
  5. বাবুল আখতার রানা (৮ মে ২০১৯)। "নওগাঁর পতিসরে বিশ্বকবি রবীন্দ্রনাথ ঠাকুরের ১৫৮তম জন্মোৎসব"বাংলাদেশ প্রতিদিন। সংগ্রহের তারিখ ২০২০-০৬-২০