ক্লোরোফিল

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
সরাসরি যাও: পরিভ্রমণ, অনুসন্ধান
Animation depicting nearly four years worth of SeaWiFS ocean chlorophyll concentration.
These chlorophyll maps show milligrams of chlorophyll per cubic meter of seawater each month. Places where chlorophyll amounts were very low, indicating very low numbers of phytoplankton, are blue. Places where chlorophyll concentrations were high, meaning many phytoplankton were growing, are yellow. The observations come from the Moderate Resolution Imaging Spectroradiometer (MODIS) on NASA’s Aqua satellite. Land is dark gray, and places where MODIS could not collect data because of sea ice, polar darkness, or clouds are light gray.The highest chlorophyll concentrations, where tiny surface-dwelling ocean plants are thriving, are in cold polar waters or in places where ocean currents bring cold water to the surface, such as around the equator and along the shores of continents. It is not the cold water itself that stimulates the phytoplankton. Instead, the cool temperatures are often a sign that the water has welled up to the surface from deeper in the ocean, carrying nutrients that have built up over time. In polar waters, nutrients accumulate in surface waters during the dark winter months when plants can’t grow. When sunlight returns in the spring and summer, the plants flourish in high concentrations.[১]

ক্লোরোফিল হচ্ছে একধরণের সবুজ রঞ্জক পদার্থ যা সায়ানোব্যাকটেরিয়ায় এবং উদ্ভিদশৈবালের ক্লোরোপ্লাস্টে পাওয়া যায়। ক্লোরোফিল শব্দটি গ্রীক শব্দ থেকে নেয়া হয়েছে, χλωρός, chloros ("সবুজ") and φύλλον, phyllon ("পাতা"),[২] তাই ক্লোরোফিলের শব্দগত অর্থ সবুজ পাতা। ক্লোরোফিল একটি অতীব প্রয়োজনীয় জৈব অণু যা সালোকসংশ্লেষণ প্রক্রিয়ায় গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করে এবং উদ্ভিদকে সূর্যালোক থেকে শক্তি সংগ্রহে সাহায্য করে। ক্লোরোফিল তড়িৎচুম্বকীয় বর্ণালীর নীলাংশ থেকে আলো শোষণ করে।[৩] ১৮১৭ সালে জোসেফ নিয়েনাইমে কাভেন্তো এবং পিয়েরে জোসেফ পেল্লেতিয়ের (Pelletier) সর্বপ্রথম ক্লোরোফিল আবিষ্কার করেন।[৪]

অবস্থান[সম্পাদনা]

প্রধানত পাতার মেসোফিল কলার কোশে ক্লোরোপ্লাস্ট নামে একধরনের অঙ্গাণু থাকে। ক্লোরোপ্লাস্টের থাইলাকয়েড পর্দার মধ্যে ক্লোরোফিল থাকে। পূর্বের কোয়ান্টোজোম মতবাদ এখন বিজ্ঞানীরা বর্জন করেছেন।

প্রকারভেদ[সম্পাদনা]

ক্লোরোফিল অণুর গঠন অনুসারে ক্লোরোফিল পাঁচ প্রকারের হয়, যথা: ক্লোরোফিল-a, ক্লোরোফিল-b, ক্লোরোফিল-c1, ক্লোরোফিল-c2, ক্লোরোফিল-dক্লোরোফিল-f। উন্নত সবুজ উদ্ভিদ ও সবুজ শৈবালে ক্লোরোফিল-a ও ক্লোরোফিল-b, সামুদ্রিক শৈবালে ক্লোরোফিল-c1 ও ক্লোরোফিল-c2, সায়ানোব্যাক্টেরিয়াতে ক্লোরোফিল-d ও ক্লোরোফিল-f থাকে। এছাড়া সাহায্যকারী রঞ্জক পদার্থ হিসাবে ফাইকোসায়ানিন, ফাইকোএরিথ্রিন পাওয়া যায়, ব্যাক্টেরিয়াতে উপস্থিত ক্লোরোফিলকে ব্যাক্টেরিও-ক্লোরোফিল বলে।

রাসায়নিক গঠন[সম্পাদনা]

রাসায়নিক গঠন অনুসারে ক্লোরোফিল কার্বন (C), হাইড্রোজেন (H), অক্সিজেন (O), নাইট্রোজেন (N) ও ম্যাগনেসিয়াম (Mg) নিয়ে গঠিত। ক্লোরোফিলের রাসায়নিক গঠনে দেখা যায় এটি পরফাইরিন (porphyrin) যৌগ। এই পরফাইরিন চারটি পাইরল (pyrrole) বলয় বৃত্তাকারে পরস্পর যুক্ত হয়। কেন্দ্রে একটি ম্যাগনেসিয়াম (Mg++) আয়ন থাকে। একটি ফাইটল জাতীয় শৃঙ্খল চতুর্থ পাইরল বলয়ের সঙ্গে যুক্ত থাকে। ক্লোরোফিল-a তে দ্বিতীয় পাইরল বলয়ে -CH3 গ্রুপ থাকে এবং ক্লোরোফিল-b তে ওই স্থানে -CHO গ্রুপ থাকে।
বর্ণালিবীক্ষণ যন্ত্রের সাহায্যে দেখা যায়, আলোকের সাতটি বর্ণের মধ্যে ক্লোরোফিল-a এবং ক্লোরোফিল-b, নীল, বেগুনি এবং লাল অংশগুলি বেশি মাত্রায় শোষণ করে। আলোকের সবুজ অংশ শোষিত হয় না। ক্লোরোফিল রঞ্জক বর্ণালীর লাল এবং নীল অংশ বেশি শোষণ করে বলে এই দুই অংশকে ক্লোরোফিল রঞ্জকের শোষণ বর্ণালী বলে। এথেকে বোঝা যায় যে সালোকসংশ্লেষে ক্লোরোফিল প্রধান রঞ্জক হিসাবে কাজ করে । ক্লোরোফিল-a অণু 410 nm এবং 660 nm তরঙ্গদৈর্ঘ্যযুক্ত আলো এবং ক্লোরোফিল-b অণু 452 nm এবং 642 nm তরঙ্গদৈর্ঘ্যের আলো শোষণ করতে পারে। ক্লোরোফিল-b থেকে ক্লোরোফিল-a বেশি আলো শোষণ করে । আবার ক্লোরোফিল-b এর নীল আলো শোষণ করার ক্ষমতা ক্লোরোফিল-a থেকে বেশি।

চিত্র মালা[সম্পাদনা]

আরো পড়ুন[সম্পাদনা]

তথ্য উৎস[সম্পাদনা]

  1. Chlorophyll : বৈশ্বিক মানচিত্র. Earthobservatory.nasa.gov. Retrieved on 2014-02-02.
  2. "chlorophyll"Online Etymology Dictionary 
  3. Chlorophyll molecules are specifically arranged in and around photosystems that are embedded in the thylakoid membranes of chloroplasts. Two types of chlorophyll exist in the photosystems: chlorophyll a and b. Speer, Brian R. (১৯৯৭)। "Photosynthetic Pigments"UCMP Glossary (online)University of California Museum of Paleontology। সংগৃহীত ২০১০-০৭-১৭ 
  4. Delépine, Marcel (সেপ্টেম্বর ১৯৫১)। "Joseph Pelletier and Joseph Caventou"। Journal of Chemical Education 28 (9): ৪৫৪। ডিওআই:10.1021/ed028p454বিবকোড:1951JChEd..28..454D 

বহিঃসংযোগ[সম্পাদনা]