ফেডারেশন কাপ (বাংলাদেশ)

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
ফেডারেশন কাপ
আয়োজকবাংলাদেশ ফুটবল ফেডারেশন
প্রতিষ্ঠিত১৯৮০; ৪৩ বছর আগে (1980)
অঞ্চলবাংলাদেশ
দলের সংখ্যা১৩
বর্তমান চ্যাম্পিয়নবসুন্ধরা কিংস (২য় শিরোপা)
সবচেয়ে সফল দলঢাকা আবাহনী (১১টি শিরোপা)
টেলিভিশন সম্প্রচারকটি স্পোর্টস
ওয়েবসাইটwww.bff.com.bd
২০২২–২৩

ফেডারেশন কাপ (পূর্বে বাংলাদেশ ফেডারেশন কাপ নামে পরিচিত) হচ্ছে বাংলাদেশের পুরুষ ফুটবল ক্লাবের মধ্যকার আয়োজিত ফুটবল প্রতিযোগিতা। এই প্রতিযোগিতাটি ১৯৮০ সালে প্রতিষ্ঠিত হয় এবং বাংলাদেশ ফুটবল ফেডারেশন কর্তৃক পরিচালিত হয়, যা দেশের সব ধরনের প্রতিযোগিতামূলক খেলার কার্যক্রম নিয়ন্ত্রণ করে। দেশের বাংলাদেশ প্রিমিয়ার লীগ এবং অন্যান্য ক্লাবের দলগুলো এই প্রতিযোগিতায় প্রতিদ্বন্দ্বিতা করে, তবে পূর্বে মাঝেমধ্যে কিছু ভারতীয় ক্লাবকে এই প্রতিযোগিতায় অংশগ্রহণ করার ক্ষেত্রে আমন্ত্রণ জানানো হতো। এই প্রতিযোগিতার অধিকাংশ খেলা দেশের প্রধান ফুটবল মাঠ বঙ্গবন্ধু জাতীয় স্টেডিয়ামে অনুষ্ঠিত হয়। এই প্রতিযোগিতার বিজয়ী দল এএফসি কাপের বাছাইপর্বে খেলার জন্য উত্তীর্ণ হয়।

এপর্যন্ত এই প্রতিযোগিতাটি ৭টি ক্লাব জয়লাভ করেছে, যার মধ্যে ৫টি ক্লাব একাধিকবার জয়লাভ করেছে। ঢাকা আবাহনী এই প্রতিযোগিতার ইতিহাসের সবচেয়ে সফল ক্লাব, যারা সর্বমোট ১১ বার শিরোপা জয়ালাভ করেছে।[১][২][৩] দ্বিতীয় স্থানে রয়েছে মোহামেডান স্পোর্টিং ক্লাব, যারা এপর্যন্ত ১০ বার। বর্তমান চ্যাম্পিয়ন বসুন্ধরা কিংস ২০২০–২১ মৌসুমের ফাইনালে সাইফ স্পোর্টিং ক্লাবকে ১–০ গোলে হারিয়ে ক্লাবের ইতিহাসে দ্বিতীয়বারের মতো ফেডারেশন কাপের শিরোপা ঘরে তুলতে সক্ষম হয়।[৪]

বিন্যাস[সম্পাদনা]

ফেডারেশন কাপের প্রতিটি আসরে সর্বমোট ১৩টি দল অংশগ্রহণ করে। দলগুলোকে ৪ গ্রুপে বিভক্ত করা হয়। প্রতিটি গ্রুপ হতে দুটি দল নকআউট পর্বে খেলার জন্য উত্তীর্ণ হয়।[৫]

চ্যাম্পিয়ন[সম্পাদনা]

সাল চ্যাম্পিয়ন ফলাফল রানার-আপ শীর্ষ গোলদাতা সূত্র
১৯৮০ মোহামেডান স্পোর্টিং ক্লাব[ক] ০–০ ব্রাদার্স ইউনিয়ন[ক]
১৯৮১ মোহামেডান স্পোর্টিং ক্লাব ২–০ আবাহনী ক্রীড়া চক্র
১৯৮২ আবাহনী ক্রীড়া চক্র[ক] ০–০ মোহামেডান স্পোর্টিং ক্লাব[ক]
১৯৮৩ মোহামেডান স্পোর্টিং ক্লাব ২–০ আবাহনী ক্রীড়া চক্র
১৯৮৪ মোহামেডান স্পোর্টিং ক্লাব[খ] ০–০[গ] আবাহনী ক্রীড়া চক্র[খ]
১৯৮৫ আবাহনী ক্রীড়া চক্র ১–০ ব্রাদার্স ইউনিয়ন
১৯৮৬ আবাহনী ক্রীড়া চক্র ২–১ ব্রাদার্স ইউনিয়ন
১৯৮৭ মোহামেডান স্পোর্টিং ক্লাব ১–০ ঢাকা ওয়ান্ডারার্স ক্লাব
১৯৮৮ আবাহনী লিমিটেড ১–০ মোহামেডান স্পোর্টিং ক্লাব
১৯৮৯ মোহামেডান স্পোর্টিং ক্লাব ২–১ (অ.স.প.) আবাহনী লিমিটেড
১৯৯১ ব্রাদার্স ইউনিয়ন ০–০ (অ.স.প.)
(৪–২ পে.)
মোহামেডান স্পোর্টিং ক্লাব
১৯৯৪ মুক্তিযোদ্ধা সংসদ ৩–২ আবাহনী লিমিটেড
১৯৯৫ মোহামেডান স্পোর্টিং ক্লাব ০–০ (অ.স.প.)
(৬–৫ পে.)
আবাহনী লিমিটেড
১৯৯৭ আবাহনী লিমিটেড ২–১ আরামবাগ ক্রীড়া সংঘ
১৯৯৯ আবাহনী লিমিটেড ০–০ (অ.স.প.)
(৫–৩ পে.)
মুক্তিযোদ্ধা সংসদ
২০০০ আবাহনী লিমিটেড ২–১ মোহামেডান স্পোর্টিং ক্লাব
২০০১ মুক্তিযোদ্ধা সংসদ ৩–০ আরামবাগ ক্রীড়া সংঘ
২০০২ মোহামেডান স্পোর্টিং ক্লাব ২–০ মুক্তিযোদ্ধা সংসদ
২০০৩ মুক্তিযোদ্ধা সংসদ ২–১ (অ.স.প.) মোহামেডান স্পোর্টিং ক্লাব
২০০৫ ব্রাদার্স ইউনিয়ন ১–০ মুক্তিযোদ্ধা সংসদ
২০০৮ মোহামেডান স্পোর্টিং ক্লাব ১–১ (অ.স.প.)
(৩–২ পে.)
আবাহনী লিমিটেড [৬]
২০০৯ মোহামেডান স্পোর্টিং ক্লাব ০–০ (অ.স.প.)
(৪–১ পে.)
আবাহনী লিমিটেড নাইজেরিয়া আলামু বুকোলা ওলালেকান (৮) [৭]
২০১০ আবাহনী লিমিটেড ৫–৩ (অ.স.প.) শেখ জামাল সুদান জেমস মোগা (৭) [৮]
২০১১–১২ শেখ জামাল ৩–১ বিজেএমসি দল নাইজেরিয়া আসোগবা অ্যালেন (৪)
নাইজেরিয়া আব্দুল রশিদ আজাগুন (৪)
ক্যামেরুন আর্নস্ট এমাকো সিনাকাম (৪)
নাইজেরিয়া লাকি ডিভাইন (৪)
[৯]
২০১২ শেখ রাসেল ২–১ (অ.স.প.) শেখ জামাল বাংলাদেশ জাহিদ হাসান এমিলি (৭)
২০১৩ শেখ জামাল ১–০ মুক্তিযোদ্ধা সংসদ হাইতি সনি নর্দে (৭) [১০]
২০১৫ শেখ জামাল ৬–৪ (অ.স.প.) মুক্তিযোদ্ধা সংসদ হাইতি ওয়েদসন আনসেলমে (৬) [১১]
২০১৬ আবাহনী লিমিটেড ১–০ আরামবাগ ক্রীড়া সংঘ নাইজেরিয়া কেস্টুর একন (৪) [১২]
২০১৭ আবাহনী লিমিটেড ৩–১ চট্টগ্রাম আবাহনী নাইজেরিয়া এমেকা ডার্লিংটন (৩) [১৩]
২০১৮ আবাহনী লিমিটেড ৩–১ বসুন্ধরা কিংস নাইজেরিয়া সানডে চিজোবা (৬) [১৪]
২০১৯–২০ বসুন্ধরা কিংস ২–১ রহমতগঞ্জ এমএফএস পুয়ের্তো রিকো সিডনি রিভেরা (৪) [১৫]
২০২০–২১ বসুন্ধরা কিংস ১–০ সাইফ স্পোর্টিং ক্লাব আর্জেন্টিনা রাউল বেসেরা (৫)
নাইজেরিয়া কেনেথ ইকেচুকু (৫)
[১৬]
টীকা
  • ক ^ – ফলাফল সমতায় থাকায় উভয় দলকেই চ্যাম্পিয়ন হিসেবে ঘোষণা করা হয়।
  • খ ^ – দাঙ্গার ফলে ফাইনাল খেলা বাতিল করা হয়েছে, যার ফলে কোন দল চ্যাম্পিয়ন এবং রানার-আপের খেতাব লাভ করতে পারেনি।
  • গ ^ – দাঙ্গার পূর্ব পর্যন্ত খেলাটি ০–০ গোলে সমতায় ছিল।

ক্লাব অনুযায়ী[সম্পাদনা]

দল চ্যাম্পিয়ন রানার-আপ বিজয়ের সাল রানার-আপের সাল
আবাহনী লিমিটেড ১১ ১৯৮২*, ১৯৮৫, ১৯৮৬, ১৯৮৮, ১৯৯৭,
১৯৯৯, ২০০০, ২০১০, ২০১৬,
২০১৭, ২০১৮
১৯৮১, ১৯৮৩, ১৯৮৯, ১৯৯৪, ১৯৯৫,
২০০৮, ২০০৯
মোহামেডান স্পোর্টিং ক্লাব ১০ ১৯৮০*, ১৯৮১, ১৯৮২*, ১৯৮৩, ১৯৮৭,
১৯৮৯, ১৯৯৫, ২০০২, ২০০৮, ২০০৯
১৯৮৮, ১৯৯১, ২০০০, ২০০৩
মুক্তিযোদ্ধা সংসদ ১৯৯৪, ২০০১, ২০০৩ ১৯৯৯, ২০০২, ২০০৫, ২০১৩, ২০১৫
ব্রাদার্স ইউনিয়ন ১৯৮০*, ১৯৯১, ২০০৫ ১৯৮৫, ১৯৮৬
শেখ জামাল ২০১১–১২, ২০১৩, ২০১৫ ২০১০, ২০১২
বসুন্ধরা কিংস ২০১৯–২০, ২০২০–২১ ২০১৮
শেখ রাসেল ২০১২
আরামবাগ ক্রীড়া সংঘ ১৯৯৭, ২০০১, ২০১৬
ঢাকা ওয়ান্ডারার্স ক্লাব ১৯৮৭
বিজেএমসি দল ২০১১–১২
চট্টগ্রাম আবাহনী ২০১৭
রহমতগঞ্জ এমএফএস ২০১৯–২০
সাইফ স্পোর্টিং ক্লাব ২০২০–২১

সংস্করণ অনুসারে শীর্ষ গোলদাতা[সম্পাদনা]

৯ জানুয়ারি ২০২২ পর্যন্ত হালনাগাদকৃত।
বছর খেলোয়াড় ক্লাব গোল
১৯৮৭ বাংলাদেশ Rizvi Karim Rumi
বাংলাদেশ Rumman Bin Wali Sabbir
BRTC
Dhaka Mohammedan
২০০১ বাংলাদেশ Momin Prantik Krira Chakra
২০০৯ নাইজেরিয়া Alamu Bukola Olalekan Dhaka Mohammedan
২০১০ দক্ষিণ সুদান James Moga Muktijoddha Sangsad KC
২০১১-১২ নাইজেরিয়া Assogba Allen
নাইজেরিয়া Abdul Rasheed Ajagun
ক্যামেরুন Ernest Emako-Siankam
নাইজেরিয়া Lucky Divine
Sheikh Jamal Dhanmondi Club
Team BJMC
Sheikh Russel KC
Rahmatganj MFS
২০১২ বাংলাদেশ Jahid Hasan Ameli Sheikh Russel KC
২০১৩ হাইতি Sony Norde Sheikh Jamal Dhanmondi Club
২০১৫ হাইতি Wedson Anselme Sheikh Jamal Dhanmondi Club
২০১৬ নাইজেরিয়া Kester Akon Arambagh KS
২০১৭ নাইজেরিয়া Emeka Darlington Dhaka Abahani
২০১৮ নাইজেরিয়া Sunday Chizoba Dhaka Abahani
২০১৯-২০

পুয়ের্তো রিকো Sidney Rivera

Bangladesh Police FC

২০২০-২১ আর্জেন্টিনা Raúl Becerra
নাইজেরিয়া Kenneth Ikechukwu
Bashundhara Kings
Saif Sporting Club
২০২১-২২ ব্রাজিল Dorielton Gomes
নাইজেরিয়া Philip Adjah
Dhaka Abahani
Rahmatganj MFS

পৃষ্ঠপোষক[সম্পাদনা]

কার্যকাল পৃষ্ঠপোষক
১৯৮০–১৯৮৮ কোন মূল পৃষ্ঠপোষক ছিল না
১৯৮৯ কোকা-কোলা
১৯৯১–১৯৯৪ কোন মূল পৃষ্ঠপোষক ছিল না
১৯৯৫ বেক্সিমকো
১৯৯৭ কোন মূল পৃষ্ঠপোষক ছিল না
১৯৯৯ পেড্রোলো পাম্প
২০০০ কোন মূল পৃষ্ঠপোষক ছিল না
২০০১ নিটল গ্রুপ
২০০২ মুক্তিযুদ্ধ সংসদ
২০০৩–২০০৫ কোহিনুর ক্যামিকাল
২০০৮–২০০৯ সিটিসেল
২০১০–২০১২ গ্রামীণফোন
২০১৩–২০১৮ ওয়ালটন গ্রুপ
২০১৯–২০২০ টিভিএস মোটর কোম্পানি
২০২০–২০২১ ওয়ালটন গ্রুপ
২০২১- বসুন্ধরা গ্রুপ

আরও দেখুন[সম্পাদনা]

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. "Bangladesh - List of Cup Winners" [বাংলাদেশ - কাপ বিজয়ীর তালিকা] (ইংরেজি ভাষায়)। আরএসএসএসএফ। সংগ্রহের তারিখ ২৬ আগস্ট ২০১১ 
  2. "Federation Cup" [ফেডারেশন কাপ] (ইংরেজি ভাষায়)। বাংলাদেশ ফুটবল ফেডারেশন। ২০১০। ১৭ সেপ্টেম্বর ২০১১ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২৬ আগস্ট ২০১১ 
  3. "Federation Cup role of honor" [ফেডারেশন কাপে অর্জন] (ইংরেজি ভাষায়)। বাংলাদেশ ফুটবল ফেডারেশন। ২২ অক্টোবর ২০১০। ১৭ সেপ্টেম্বর ২০১১ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২৭ জানুয়ারি ২০১৩ 
  4. "মুকুট ধরে রাখল বসুন্ধরা কিংস"বিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম। ১০ জানুয়ারি ২০২১। সংগ্রহের তারিখ ১১ জানুয়ারি ২০২১ 
  5. "আর্কাইভকৃত" (ইংরেজি ভাষায়)। ৬ জুলাই ২০১১ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ১৬ আগস্ট ২০১০ 
  6. "Arman does it for his mom" [মায়ের জন্য আরমানের জয়]। দ্য ডেইলি স্টার (ইংরেজি ভাষায়)। ২ সেপ্টেম্বর ২০০৮। সংগ্রহের তারিখ ২৯ ডিসেম্বর ২০২০ 
  7. "Mohammedan keep the Cup" [মোহামেডান পুনরায় শিরোপা জয়লাভ করল]। দ্য ডেইলি স্টার (ইংরেজি ভাষায়)। ২০ অক্টোবর ২০০৯। সংগ্রহের তারিখ ২৯ ডিসেম্বর ২০২০ 
  8. "Fed Cup Abahani's" [ফেডারেশন কাপ আবাহনীর]। দ্য ডেইলি স্টার (ইংরেজি ভাষায়)। ৩১ অক্টোবর ২০১০। সংগ্রহের তারিখ ২৯ ডিসেম্বর ২০২০ 
  9. "Classy Jamal clinch Cup" [জামালের কাপ জয়]। দ্য ডেইলি স্টার (ইংরেজি ভাষায়)। ২৫ জানুয়ারি ২০১২। সংগ্রহের তারিখ ২৯ ডিসেম্বর ২০২০ 
  10. "Sk Jamal take the crown" [শেখ জামালের মুকুট জয়]। দ্য ডেইলি স্টার (ইংরেজি ভাষায়)। ১৪ ডিসেম্বর ২০১৩। সংগ্রহের তারিখ ২৯ ডিসেম্বর ২০২০ 
  11. "Sk Jamal retain title" [শেখ জামাল পুনরায় শিরোপা জয়লাভ করল]। দ্য ডেইলি স্টার (ইংরেজি ভাষায়)। ৬ মার্চ ২০১৫। সংগ্রহের তারিখ ২৯ ডিসেম্বর ২০২০ 
  12. "Abahani Win Fed Cup Title" [আবাহনীর ফেডারেশন কাপ শিরোপা জয়]। বাংলাদেশ ফুটবল ফেডারেশন (ইংরেজি ভাষায়)। ২৭ জুন ২০১৬। ২ জুলাই ২০১৬ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২৯ জুন ২০১৬ 
  13. "Dhaka Abahani lift 10th Fed Cup title" [ঢাকা আবাহনীর ১০ম আসরের মতো শিরোপা জয়]। ডেইলি সান (ইংরেজি ভাষায়)। ৮ জুন ২০১৭। সংগ্রহের তারিখ ২৯ ডিসেম্বর ২০২০ 
  14. "Abahani seal hattrick title" [আবাহনীর হ্যাট্রিক শিরোপা জয়]। দ্য ডেইলি স্টার (ইংরেজি ভাষায়)। ২৪ নভেম্বর ২০১৮। সংগ্রহের তারিখ ২৯ ডিসেম্বর ২০২০ 
  15. "Kings clinch Fed Cup" [কিংসের ফেডারেশন কাপ জয়]। ঢাকা ট্রিবিউন (ইংরেজি ভাষায়)। ৫ জানুয়ারি ২০২০। সংগ্রহের তারিখ ৫ জানুয়ারি ২০২০ 
  16. "মুকুট ধরে রাখল বসুন্ধরা কিংস"বিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম। ২০২১-০১-১০। সংগ্রহের তারিখ ২০২১-০১-১০ 

বহিঃসংযোগ[সম্পাদনা]