২০২০ বঙ্গবন্ধু গোল্ডকাপ

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
২০২০ বঙ্গবন্ধু গোল্ডকাপ
বঙ্গবন্ধু কাপ ২০২০.png
প্রতিযোগিতার বিবরণ
স্বাগতিক দেশ বাংলাদেশ
তারিখ১৫–২৫ জানুয়ারি ২০২০[২]
দল[১] (২টি কনফেডারেশন থেকে)
ভেন্যু১ (১টি আয়োজক শহরে)
চূড়ান্ত অবস্থান
চ্যাম্পিয়ন ফিলিস্তিন (২য় শিরোপা)
রানার-আপ বুরুন্ডি
পরিসংখ্যান
ম্যাচ খেলেছে
গোল সংখ্যা২৮ (ম্যাচ প্রতি ৩.১১টি)
শীর্ষ গোলদাতা জসপিন এনসিমিরিমানা (৭ গোল)
সেরা খেলোয়াড় জসপিন এনসিমিরিমানা [৩]
সেরা গোলরক্ষক তৌফিক আলি[৩]
ফেয়ার প্লে পুরষ্কার ফিলিস্তিন[৩]
সর্বশেষ হালনাগাদ: ২৫ জানুয়ারি, ২০২০

২০২০ বঙ্গবন্ধু গোল্ডকাপ অথবা ২০২০ বঙ্গবন্ধু কাপ বাংলাদেশ ফুটবল ফেডারেশন (বাফুফে) কর্তৃক পরিচালিত ও আয়োজিত একটি আন্তর্জাতিক ফুটবল প্রতিযোগিতার ষষ্ঠ আসর। বাংলাদেশের জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের স্মরণে এ প্রতিযোগিতাটি ১৯৯৬ সাল থেকে অনিয়মিতভাবে অনুষ্ঠিত হয়ে আসছে।[৪] ২০২০ সালের ১৫ থেকে ২০ জানুয়ারি ৬ জাতির এই ফুটবল প্রতিযোগিতা অনুষ্ঠিত হয়। ২৫ জানুয়ারি, ২০২০ তারিখে অনুষ্ঠিত ফাইনাল খেলায় ফিলিস্তিন ৩-১ গোলে বুরুন্ডিকে হারিয়ে প্রতিযোগিতার শিরোপা জিতে নেয়।[৫] এটা ফিলিস্তিনের দ্বিতীয় শিরোপা।[৬][৭]

অংশগ্রহণকারী দল[সম্পাদনা]

দেশ ফিফা র‍্যাঙ্ক পূর্বের সেরা ফল
 বাংলাদেশ (স্বাগতিক) ১৮৭ রানারআপ (২০১৫)
 ফিলিস্তিন ১০৬ চ্যাম্পিয়ন (২০১৮)
 বুরুন্ডি ১৫১ অভিষেক
 মরিশাস ১৭২ অভিষেক
 সেশেল ২০০ অভিষেক
 শ্রীলঙ্কা ২০৫ গ্রুপ পর্ব (২০১৬)

ড্র[সম্পাদনা]

২০২০ সালের ৪ জানুয়ারি, ঢাকার প্যান প্যাসিফিক হোটেল সোনারগাঁওতে এই প্রতিযোগিতার ড্র অনুষ্ঠিত হয়। অংশগ্রহণকারী ছয়টি দলকে তিনটি গ্রুপে বিভক্ত করা হয় যেখানে প্রত্যেক গ্রুপে ২টি দল ছিল।

পাত্র ১ পাত্র ২ পাত্র ৩
  1.  মরিশাস (১৭২)
  2.  বাংলাদেশ (১৮৭) (স্বাগতিক)
  1.  সেশেল (২০০)
  2.  শ্রীলঙ্কা (২০৫)

মাঠ[সম্পাদনা]

এই প্রতিযোগিতার ৯টি ম্যাচের সবগুলি ঢাকার বঙ্গবন্ধু জাতীয় স্টেডিয়ামে আয়োজন করা হয়।

ঢাকা
বঙ্গবন্ধু জাতীয় স্টেডিয়াম
২৩°৪৩′৪০.২″ উত্তর ৯০°২৪′৪৮.৪″ পূর্ব / ২৩.৭২৭৮৩৩° উত্তর ৯০.৪১৩৪৪৪° পূর্ব / 23.727833; 90.413444 (Dhaka)
ধারণক্ষমতা: ৩৬,০০০ আসন
Bangabandhu National Stadium, Dhaka, Bangladesh.jpg

খেলা পরিচালনাকারী[সম্পাদনা]

গ্রুপ পর্ব[সম্পাদনা]

গ্রুপ এ[সম্পাদনা]

অব দল খে ড্র হা স্বগো বিগো গোপা পয়েন্ট যোগ্যতা অর্জন
 ফিলিস্তিন +৪ সেমি ফাইনালে উত্তরণ
 বাংলাদেশ (H) +১
 শ্রীলঙ্কা −৫
বাংলাদেশ ০–২ ফিলিস্তিন
প্রতিবেদন
  • খালেদ সালেম গোল ২৮'
  • লাইথ খারুব গোল ৫৮'
দর্শক সংখ্যা: ৬,৫০০
রেফারি: সুদিশ পান্ডে (নেপাল)

ফিলিস্তিন ২–০ শ্রীলঙ্কা
  • মাহমুদ আবু ওয়ার্দা গোল ৯০+৩'
  • খালেদ সালেম গোল ৯০+৬'
প্রতিবেদন

শ্রীলঙ্কা ০–৩ বাংলাদেশ
প্রতিবেদন

গ্রুপ বি[সম্পাদনা]

অব দল খে ড্র হা স্বগো বিগো গোপা পয়েন্ট যোগ্যতা অর্জন
 বুরুন্ডি +৫ সেমি ফাইনালে উত্তরণ
 সেশেল −২
 মরিশাস −৩
মরিশাস ১–৪ বুরুন্ডি
  • আদ্রিয়েন ফ্রাঙ্কোইস গোল ৩'
প্রতিবেদন
  • জসপিন এনসিমিরিমানা গোল ২৮'৪৭'৮৫'
  • আসমান এনডিকুমানা গোল ৪১'

বুরুন্ডি ৩–১ সেশেল
  • জসপিন এনসিমিরিমানা গোল ৫৪'
  • আমিসি টামবুই গোল ৬০'৬১'
প্রতিবেদন
  • পেরি মনি গোল ২৬'
রেফারি: মোহাম্মদ জালাল উদ্দিন (বাংলাদেশ)

সেশেল ২–২ মরিশাস
  • জারভিস ওয়ে-হাইভ গোল ১৯'
  • পেরি মনি গোল ২৮'
প্রতিবেদন
  • জেসন ফেরি গোল ৬৭'
  • আদ্রিয়েন ফ্রাঙ্কোইস গোল ৯০+১'

নকআউট পর্ব[সম্পাদনা]

  • সকল খেলা বাংলাদেশের মান সময় অনুযায়ী শুরু হয়েছে।
  • নকআউট পর্বের খেলায় নির্ধারিত সময়ের মধ্যে খেলা গোল শুন্য হলে, ১৫ মিনিট সময়ব্যাপী দুই অর্ধের অতিরিক্ত সময়ে খেলা এবং অতিরিক্ত সময়ের মধ্যে ফলাফল নির্ধারণ না হলে পেনাল্টি শুট-আউট-এর মাধ্যমে জয়-পরাজয় নির্ধারণ করা হয়।

বন্ধনী[সম্পাদনা]

 
সেমি ফাইনালফাইনাল
 
      
 
২২ জানুয়ারি
 
 
 ফিলিস্তিন
 
২৫ জানুয়ারি
 
 সেশেল
 
 ফিলিস্তিন
 
২৩ জানুয়ারি
 
 বুরুন্ডি
 
 বুরুন্ডি
 
 
 বাংলাদেশ
 

সেমি ফাইনাল[সম্পাদনা]

ফিলিস্তিন ১–০ সেশেল
  • লাইথ খারুব গোল ৭৯'
প্রতিবেদন

বুরুন্ডি ৩–০ বাংলাদেশ
  • জসপিন এনসিমিরিমানা গোল ৪৩'৪৫+২'৭৯'
প্রতিবেদন

ফাইনাল[সম্পাদনা]

ফিলিস্তিন ৩–১ বুরুন্ডি
  • খালেদ সালেম গোল ৩'
  • সামিহ মারাবা গোল ১০'
  • লাইথ খারুব গোল ২৬'
প্রতিবেদন
  • আসমান এনডিকুমানা গোল ৬০'

গোলদাতা[সম্পাদনা]

এখানে ৯টি ম্যাচে ২৮টি গোল হয়েছে, যা ম্যাচ প্রতি গড়ে ৩.১১টি গোল।

৭টি গোল

  • জসপিন এনসিমিরিমানা

৩টি গোল

  • লাইথ খারুব
  • খালেদ সালেম

২টি গোল

  • মতিন মিয়া
  • আসমান এনডিকুমানা
  • আমিসি টামবুই
  • আদ্রিয়েন ফ্রাঙ্কোইস
  • পেরি মনি

১টি গোল

পৃষ্ঠ পোষক[সম্পাদনা]

স্থানীয় ক্রীড়া বিপণন সংস্থা কে-স্পোর্টস এই প্রতিযোগিতার বিপণন সত্ত্ব অধিকার করে এবং মূল পৃষ্ঠপোষক হিসেবে অর্থায়ন করে।[৮]

পুরষ্কার[সম্পাদনা]

প্রতিযোগিতা শেষে শিরোপা বিজয়ী দলকে ৩০ হাজার মার্কিন ডলার ও রানার্স-আপ দলকে ২০ হাজার মার্কিন ডলার অর্থ পুরষ্কার হিসেবে দেয়া হয়।[৫]

সম্প্রচার সত্ত্ব[সম্পাদনা]

দেশ প্রচারক সূত্র
 বাংলাদেশ আরটিভি
বিটিভি
[৯]
 বুরুন্ডি বিইটিভি
 মরিশাস এমবিসি ১
 ফিলিস্তিন আল কুদস টিভি
 সেশেল স্টার টাইমস
 শ্রীলঙ্কা ডায়লগ টিভি

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. "নাটকীয়ভাবে আরেক দল বাড়লো বঙ্গবন্ধু গোল্ডকাপে"জাগো নিউজ টোয়েন্টিফোর। ৪ জানুয়ারি ২০২০। সংগ্রহের তারিখ ৪ জানুয়ারি ২০২০ 
  2. "Bangabandhu Gold Cup defers to next year"ঢাকা ট্রিবিউন। ১৩ নভেম্বর ২০১৯। সংগ্রহের তারিখ ১৪ নভেম্বর ২০১৯ 
  3. "Palestine rout Burundi 3-1 to retain Bangabandhu Gold Cup title"। Dhaka। UNB। ২৫ জানুয়ারি ২০২০। সংগ্রহের তারিখ ২৫ জানুয়ারি ২০২০ 
  4. "Bangabandhu Gold Cup Football to begin on Jan 15"United News of Bangladesh। ১ জানুয়ারি ২০২০। সংগ্রহের তারিখ ৩ জানুয়ারি ২০২০ 
  5. "Palestine rout Burundi 3-1 to retain Bangabandhu Gold Cup..."unb.com.bd (English ভাষায়)। ২০২০-০১-২৫। সংগ্রহের তারিখ ২০২০-০৩-০৯ 
  6. "Palestine beats Burundi to retain Bangabandhu Gold Cup title"The Financial Express (ইংরেজি ভাষায়)। ২০২০-০১-২৫। সংগ্রহের তারিখ ২০২০-০৩-০৯ 
  7. "ফিলিস্তিনের অর্জন, বাংলাদেশের আক্ষেপ"বিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর। ২০২০-০১-২৫। সংগ্রহের তারিখ ২০২০-০৩-০৯ 
  8. "K-SPORTS to sponsor Bangabandhu Gold Cup"United News of Bangladesh। ২৯ ডিসেম্বর ২০১৯। সংগ্রহের তারিখ ২৯ ডিসেম্বর ২০১৯ 
  9. "Bangabandhu Gold Cup kicks off Wednesday"। United News Bangladesh। ১৪ জানুয়ারি ২০২০। সংগ্রহের তারিখ ১৬ জানুয়ারি ২০২০