আমিনুল ইসলাম বুলবুল

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
আমিনুল ইসলাম
চিত্র:Aminul Islam Bulbul.jpg
ব্যক্তিগত তথ্য
পূর্ণ নামমোহাম্মদ আমিনুল ইসলাম
জন্ম (১৯৬৮-০২-০২) ২ ফেব্রুয়ারি ১৯৬৮ (বয়স ৫০)
ঢাকা, বাংলাদেশ
ডাকনামবুলবুল
ব্যাটিংয়ের ধরনডানহাতি
বোলিংয়ের ধরনডানহাতি অফ ব্রেক
খেলোয়াড়ী জীবনের পরিসংখ্যান
প্রতিযোগিতা টেস্ট ওডিআই
ম্যাচ সংখ্যা ১৩ ৩৯
রানের সংখ্যা ৫৩০ ৭৯৪
ব্যাটিং গড় ২১.২০ ২৩.৩৫
১০০/৫০ ১/২ -/৩
সর্বোচ্চ রান ১৪৫ ৭০
বল করেছে ১৯৮ ৪১২
উইকেট
বোলিং গড় ১৪৯.০০ ৫৮.৭১
ইনিংসে ৫ উইকেট - -
ম্যাচে ১০ উইকেট -
সেরা বোলিং ১/৬৬ ৩/৫৭
ক্যাচ/স্ট্যাম্পিং ৫/- ১৩/-
উৎস: ক্রিকইনফো, ১৪ অক্টোবর ২০১৬

আমিনুল ইসলাম (জন্ম: ২ ফেব্রুয়ারি, ১৯৬৮) যিনি বুলবুল নামে বেশি পরিচিত, একজন বাংলাদেশী ক্রিকেট খেলোয়াড়। তিনি বাংলাদেশ জাতীয় ক্রিকেট দলের প্রাক্তন অধিনায়ক। এছাড়া বাংলাদেশর ঘরোয়া লীগে অধিনায়কত্ব করেছেন মোহামেডানের হয়ে।

ক্যারিয়ার[সম্পাদনা]

ক্যারিয়ার এর অধিকাংশ সময় কেটেছে মোহামেডান স্পোর্টিং ক্লাব এর হয়ে খেলে। শেষ মৌসুম কেটেছে বিমান এ। বাংলাদেশ ক্রিকেটের অন্যতম পুরোধা এই সাহসী ক্রিকেটার আমাদের দেশের প্রথম খেলোয়াড় হিসেবে মাইনর কাউন্টি খেলতে ইংল্যান্ড যান। কয়েকটি সফল মৌসুম কেটেছে সেখানে। দীর্ঘ দিনের ভালোবাসার পর বিয়ে করেছেন বন্ধুর ছোট বোন যুইকে। তাকে নিয়েই তার সুখের সংসার।

বাংলাদেশের অভিষেক টেস্টে তাঁরও টেস্ট অভিষেক ঘটে (বিপক্ষ: ভারত নভেম্বর ১০,২০০০)।[১] ক্যারিয়ারের প্রথম মাচে ১৪৫ রান করে সাড়া জাগালেও নির্বাচকদের "নতুনদের সু্যোগ দেবার নীতি"-এর শিকার হয়ে ফর্মে থাকা অবস্থায় জাতীয় দল থেকে বাদ পড়েন, এবং পরে অভিমানবশতঃ অবসর নেন জাতীয় দল থেকে। এরপর তিনি চলে যান অস্ট্রেলিয়ায়। সেখানে একটি কোচিং এর প্রোগ্রাম করে স্থানীয় একটি দলে কোচ-পরবর্তী-খেলোয়াড় হিসেবে কাজ করেছেন। বর্তমানে তিনি বাংলাদেশের ফিরে আবাহনী লিমিটেড ক্রিকেট দলের কোচ হিসেবে দায়িত্ব পালন করছেন।

রেকর্ড[সম্পাদনা]

  • বাংলাদেশের প্রথম ক্রিকেটার হিসেবে টেস্টে সেঞ্চুরি করেছিলেন আমিনুল ইসলাম বুলবুল।

বহিঃসংযোগ[সম্পাদনা]

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. aminul profile on cricinfo, 30 october 2010, সংগ্রহের তারিখ 30 october 2010  এখানে তারিখের মান পরীক্ষা করুন: |তারিখ=, |সংগ্রহের-তারিখ= (সাহায্য)
পূর্বসূরী
আকরাম খান
বাংলাদেশ ক্রিকেট দলের অধিনায়ক
১৯৯৭/ - ২০০০
উত্তরসূরী
নাইমুর রহমান