শ্রবণ কুমার

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
শ্রবণ কুমার
2988147430
ভারতীয় মহাকাব্যিক চরিত্র
পরিবারশান্তনু (পিতা)
মলয়া (মাতা)


শ্রবণ কুমার হলেন রামায়ণের একটি চরিত্র। তপস্বী দম্পতি শান্তনু এবং মলয়ার পুত্র। শ্রবণের মা-বাবা উভয়রই দৃষ্টি শক্তি ক্ষীণ ছিল, পরে তারা একেবারে অন্ধ হয়ে যান৷ শ্রবণ কুমার পূর্বজন্মে রাজকুমার ছিলেন। অভিশাপের ফলে তিনি অন্ধমুনির পুত্র হয়ে জন্ম নেন।

পুত্রের মৃত্যুশোকে ম্রিয়মাণ দম্পতি এবং রাজা দশরথ

জীবন কাহিনী[সম্পাদনা]

শ্রবণ কুমার তার পিতা-মাতার প্রতি অত্যন্ত অনুগত এবং কর্তব্যনিষ্ঠ ছিলেন। তিনি নিয়মিত নিষ্ঠার সঙ্গে অন্ধ মা-বাবার সেবা করতেন। শ্রবণ কুমার যখন বাল্য থেকে কৈশোর অবস্থা পান তখন তার মা-বাবার তীর্থভ্রমণের ইচ্ছা জাগে। সাধারণত শ্রবণ নিজে মা-বাবাকে একটি ভারে তুলে এদিকে সেদিকে নিয়ে যেতেন। মা-বাবার তীর্থ ভ্রমণের ইচ্ছা পূরণের জন্য তিনি ভার নিয়ে মা-বাবাকে তীর্থস্থানে নিয়ে যাওয়ার অবস্থায় একটি গাছের তলায় বিশ্রামকালে নদী থেকে জল আনতে যান৷ সেই সময়ে অযোধ্যার রাজা দশরথ শিকারের উদ্দেশ্যে বনে ঘুরে বেড়াচ্ছিলেন। দশরথ রাজা শব্দভেদী বাণ মারার ক্ষমতায় অভিজ্ঞ ছিলেন। শ্রবণের নদী থেকে জল খাওয়ার শব্দকে মৃগের জল খাওয়া বলে ভুল করে তিনি শব্দভেদী বাণ মারেন। এই বাণের আঘাতে শ্রবণ কুমারের মৃত্যু হয়েছিল। পুত্রের মৃত্যুর কথা জানতে পেরে অন্ধ পিতা-মাতা চোখের জল ফেলতে থাকেন। এই ভুলের দ্বারা অনুতপ্ত দশরথ রাজা শ্রবণ কুমারের মা-বাবার কাছে ক্ষমা ভিক্ষা করেন। বিপরীতে তারা দশরথ রাজারও পুত্রশোকে মৃত্যু হবে বলে অভিশাপ দেন।[১]

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. An unfinished ancient tale. IndiaToday.in. 2008-05-23. Retrieved 2012-09-14.