উগো ইয়োরিস

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
উগো ইয়োরিস
2020-03-10 Fußball, Männer, UEFA Champions League Achtelfinale, RB Leipzig - Tottenham Hotspur 1DX 3687 by Stepro.jpg
২০২০ সালে টটেনহ্যাম হটস্পারের হয়ে ইয়োরিস
ব্যক্তিগত তথ্য
পূর্ণ নাম উগো আদ্রিয়্যাঁ দোমিনিক ইয়োরিস
জন্ম (1986-12-26) ২৬ ডিসেম্বর ১৯৮৬ (বয়স ৩৫)[১]
জন্ম স্থান নিস, ফ্রান্স
উচ্চতা ১.৮৮ মিটার (৬ ফুট ২ ইঞ্চি)[২]
মাঠে অবস্থান গোলরক্ষক
ক্লাবের তথ্য
বর্তমান দল
টটেনহ্যাম হটস্পার
জার্সি নম্বর
যুব পর্যায়
১৯৯৭–২০০৫ নিস
জ্যেষ্ঠ পর্যায়*
বছর দল ম্যাচ (গোল)
২০০৫–২০০৬ নিস বি ২০ (০)
২০০৫–২০০৮ নিস ৭২ (০)
২০০৮–২০১২ লিওঁ ১৪৬ (০)
২০১২– টটেনহ্যাম হটস্পার ৩৩৬ (০)
জাতীয় দল
২০০৪ ফ্রান্স অনূর্ধ্ব-১৮ (০)
২০০৪–২০০৫ ফ্রান্স অনূর্ধ্ব-১৯ ১৪ (০)
২০০৬ ফ্রান্স অনূর্ধ্ব-২০ (০)
২০০৬–২০০৮ ফ্রান্স অনূর্ধ্ব-২১ (০)
২০০৮– ফ্রান্স ১৩৯ (০)
* শুধুমাত্র ঘরোয়া লিগে ক্লাবের হয়ে ম্যাচ ও গোলসংখ্যা গণনা করা হয়েছে এবং ০৯:৫২, ৩ সেপ্টেম্বর ২০২২ (ইউটিসি) তারিখ অনুযায়ী সকল তথ্য সঠিক।
‡ জাতীয় দলের হয়ে ম্যাচ ও গোলসংখ্যা ০৯:৫২, ৩ সেপ্টেম্বর ২০২২ (ইউটিসি) তারিখ অনুযায়ী সঠিক।

উগো আদ্রিয়্যাঁ দোমিনিক ইয়োরিস (ফরাসি: Hugo Lloris, ফরাসি উচ্চারণ: ​[yɡo joʁis]; জন্ম: ২৬ ডিসেম্বর ১৯৮৬; উগো ইয়োরিস নামে সুপরিচিত) হলেন একজন ফরাসি পেশাদার ফুটবল খেলোয়াড়[৩] তিনি বর্তমানে ইংরেজ ক্লাব টটেনহ্যাম হটস্পার এবং ফ্রান্স জাতীয় দলের হয়ে গোলরক্ষক হিসেবে খেলেন। তার খেলার ধরন, তার গতি এবং বল ক্লিয়ার করার দক্ষতার জন্য গণমাধ্যম তাকে "সুইপার-কিপার" হিসেবে উল্লেখ করে থাকে।[৪]

ইয়োরিস তার স্থানীয় ক্লাব নিসের হয়ে খেলার মাধ্যমে পেশাদার ক্যারিয়ার শুরু করেন। তিনি ২০০৫ সালের অক্টোবর মাসে, একজন কিশোর হিসেবে ক্লাবে অভিষেক করেন এবং ২০০৬ সালের কুপে দে লা লিগ-এ নিয়মিত গোলরক্ষকের দায়িত্ব পালন শুরু করেন। তিন মৌসুম ক্লাবটিতে যাপন করার পর, ইয়োরিস ৭ বারের লিগ ১ চ্যাম্পিয়ন ওলাঁপিক লিয়োনে যোগদান করেন। তাকে দলে ভেড়ানোর জন্য ইউরোপের বেশ কয়েকটি ক্লাব মুখিয়ে ছিল; যার মধ্যে এসি মিলান অন্যতম। ওলাঁপিক লিয়োনের হয়ে প্রথম মৌসুমে তিনি বেশ কয়েকটি ঘরোয়া পুরস্কার জয়লাভ করতে সক্ষম হন এবং তার দ্বিতীয় মৌসুমে উয়েফা চ্যাম্পিয়ন্স লিগে তার ভালো খেলার জন্য তিনি ইউরোপের শীর্ষ পর্যায়ের বেশ কয়েকটি পুরস্কারের জন্য মনোনীত হন। তার অসাধারণ খেলার জন্য লিয়োনে প্রথমবারের মতো উয়েফা চ্যাম্পিয়ন্স লিগের সেমি-ফাইনাল পর্যন্ত পৌঁছাতে সক্ষম হয়।

২০০৪ সালে, ইয়োরিস ফ্রান্স অনূর্ধ্ব-১৮ দলের হয়ে ফ্রান্সের বয়সভিত্তিক পর্যায়ে অভিষেক করেছিলেন। প্রায় ৫ বছর যাবত ফ্রান্সের বয়সভিত্তিক দলের হয়ে খেলার পর, তিনি ২০০৮ সালে ফ্রান্সের হয়ে আন্তর্জাতিক পর্যায়ে অভিষেক করেছেন; ফ্রান্সের জার্সি গায়ে তিনি এপর্যন্ত ১৩৯ ম্যাচে অংশগ্রহণ করেছেন।

প্রারম্ভিক জীবন[সম্পাদনা]

উগো আদ্রিয়্যাঁ দোমিনিক ইয়োরিস ১৯৮৬ সালের ২৬শে ডিসেম্বর তারিখে ফ্রান্সের নিসে জন্মগ্রহণ করেছেন এবং সেখানেই তার শৈশব অতিবাহিত করেছেন।

আন্তর্জাতিক ফুটবল[সম্পাদনা]

ইয়োরিস ফ্রান্স অনূর্ধ্ব-১৮, ফ্রান্স অনূর্ধ্ব-১৯, ফ্রান্স অনূর্ধ্ব-২০ এবং ফ্রান্স অনূর্ধ্ব-২১ দলের হয়ে খেলার মাধ্যমে ফ্রান্সের প্রতিনিধিত্ব করেছেন। ২০০৪ সালে ফ্রান্স অনূর্ধ্ব-১৮ দলের হয়ে আন্তর্জাতিক পর্যায়ে অভিষেক করেছেন। ফ্রান্সের বয়সভিত্তিক দলের হয়ে তিনি প্রায় ৫ বছরে ২৬ ম্যাচে অংশগ্রহণ এবং একটি শিরোপা জয়লাভ করেছেন।

২০০৮ সালের ১৯শে নভেম্বর তারিখে, ২১ বছর, ১০ মাস ও ২৪ দিন বয়সে, বাম পায়ে ফুটবল খেলায় পারদর্শী ইয়োরিস উরুগুয়ের বিরুদ্ধে অনুষ্ঠিত প্রীতি ম্যাচে অংশগ্রহণ করার মাধ্যমে আন্তর্জাতিক ফুটবলে ফ্রান্সের হয়ে অভিষেক করেছেন।[৫] তিনি উক্ত ম্যাচের মূল একাদশে অন্তর্ভুক্ত ছিলেন;[৬] ম্যাচে তিনি ১ নম্বর জার্সি পরিধান করে খেলেছিলেন।[৭] ম্যাচটি ০–০ গোলে ড্র হয়েছিল।[৮] ফ্রান্সের হয়ে অভিষেকের বছরে ইয়োরিস সর্বমোট ১ ম্যাচে অংশগ্রহণ করেছেন।

পরিসংখ্যান[সম্পাদনা]

আন্তর্জাতিক[সম্পাদনা]

৩ সেপ্টেম্বর ২০২২ পর্যন্ত হালনাগাদকৃত।
দল সাল ম্যাচ গোল
ফ্রান্স ২০০৮
২০০৯
২০১০ ১১
২০১১ ১১
২০১২ ১৩
২০১৩ ১১
২০১৪ ১১
২০১৫
২০১৬ ১৩
২০১৭
২০১৮ ১৪
২০১৯
২০২০
২০২১ ১৬
২০২২
সর্বমোট ১৩৯

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. "FIFA World Cup Russia 2018: List of Players: France" (PDF)। FIFA। ১৫ জুলাই ২০১৮। পৃষ্ঠা 11। ১১ জুন ২০১৯ তারিখে মূল (PDF) থেকে আর্কাইভ করা। 
  2. "Premier League Player Profile Hugo Lloris"। Premier League। ২০১৫। ১৭ মে ২০১৬ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ১৮ জানুয়ারি ২০১৫ 
  3. "Hugo Lloris named as France's Euro 2012 captain"Sporting News। ২৮ ফেব্রুয়ারি ২০১২। ১১ জুলাই ২০১২ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২৮ ফেব্রুয়ারি ২০১২ 
  4. Wilson, Jonathan (১৩ ফেব্রুয়ারি ২০১৪)। "Tottenham's Hugo Lloris is Premier League's supreme sweeper-keeper"The Guardian। সংগ্রহের তারিখ ১১ মে ২০১৭ 
  5. https://int.soccerway.com/matches/2008/11/19/world/friendlies/france/uruguay/722524/
  6. https://www.worldfootball.net/report/freundschaft-2008-november-frankreich-uruguay/
  7. https://www.transfermarkt.com/spielbericht/index/spielbericht/930142
  8. https://www.national-football-teams.com/matches/report/12287/France_Uruguay.html

বহিঃসংযোগ[সম্পাদনা]