ইস্টার্ন পেরিফেরাল এক্সপ্রেসওয়ে (এনই ২)

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন

জাতীয় এক্সপ্রেসওয়ে ২ shield}}

জাতীয় এক্সপ্রেসওয়ে ২
পথের তথ্য
এনএইচএআই দ্বারা রক্ষণাবেক্ষণকৃত
দৈর্ঘ্য:১৩৫ কিমি (৮৪ মাইল)
বিদ্যমান:২৭ মে ২০১৮ – বর্তমান
প্রধান সংযোগস্থল
থেকে:কুণ্ডলী
পর্যন্ত:পালওয়াল
অবস্থান
রাজ্য:হরিয়ানা, উত্তরপ্রদেশ
প্রধান শহর:সোনিপাত, বাঘপাৎ, গাজিয়াবাদ, বৃহত্তর নয়ডা, ফরিদাবাদ, পালওয়াল
মহাসড়ক ব্যবস্থা

ইস্টার্ন পেরিফেরাল এক্সপ্রেসওয়ে বা কুণ্ডলী-গাজিয়াবাদ-পালওয়াল (কেজিপি) এক্সপ্রেসওয়ে বা ন্যাশনাল এক্সপ্রেসওয়ে ২ হল [১][২] হরিয়ানাউত্তর প্রদেশ রাজ্যের মধ্য দিয়ে বিস্তৃত ১৩৫ কিলোমিটার (৮৪ মাইল) দীর্ঘ ছয় লেন বিশিষ্ট একটি এক্সপ্রেসওয়ে। [৩][৪] এক্সপ্রেসওয়ে কুণ্ডলী, সোনিপথ [৫] থেকে শুরু হয়ে পলওয়ালের কাছে ওয়েস্টার্ন পেরিফেরাল এক্সপ্রেসওয়ের সঙ্গে যুক্ত হওয়ার আগে উত্তরপ্রদেশ রাজ্যের বাগপাৎ, গাজিয়াবাদগৌতম বুদ্ধ নগর জেলার মধ্য দিয়ে এবং হরিয়ানা রাজ্যের ফরিদাবাদ জেলার মধ্য দিয়ে প্রসারিত হয়। [৬][৭]

এক্সপ্রেসওয়েতে দুটি অংশ রয়েছে, ৮৬ কিলোমিটার দীর্ঘ পালওয়াল-গাজিয়াবাদ বিভাগ, যা ফরিদাবাদ-নয়ডা-গাজিয়াবাদ এক্সপ্রেসওয়ে নামে পরিচিত এবং ৪৯ কিলোমিটার দীর্ঘ গাজিয়াবাদ-সোনিপাথসবিভাগ। [৮] এটি ফরিদাবাদ-গাজিয়াবাদে যানবাহন চলাচলের সংকোচনের জন্য ₹১১,০০০ কোটি রুপি (১.৫ বিলিয়ন মার্কিন ডলার) খরচ করে নির্মিত হয়েছে এবং এছাড়াও বাণিজ্যিক যানবাহনকে দিল্লিতে প্রবেশের কারণে যে দূষণ ঘটত তা প্রতিরোধে করবে। [৯][১০] ভারত সরকার-এর জন্য অর্থায়ন অনুমোদন করে ২০১৫ সালের অগাস্ট মাসে এক্সপ্রেসওয়ে এনএইচডিপি ফেজ-৪ এর অধীনে বিল্ড-অপারেট-ট্রান্সফার মোডে। [১১]

ইস্টার্ন পেরিফেরাল এক্সপ্রেসওয়ে দিল্লি থেকে ৫০,০০০ টির বেশি ট্রাক বা পণ্যবাহী যানবাহনকে দূরে সরিয়ে নেবে এবং দিল্লির বায়ু দূষণে ২৭% কমে যাবে। [১২][১৩] প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি ২৭ মে ২০১৮ সালে এক্সপ্রেসওয়েটির উদ্বোধন করেন। [১৪]

লক্ষণীয় বৈশিষ্ট্য[সম্পাদনা]

এই এক্সপ্রেসওয়েতে ভারতে প্রথমবারের মত প্রয়োগ করা অনেকগুলি বৈশিষ্ট্য রয়েছে। [১৫]

  • ১৩৫ কিলোমিটার এক্সপ্রেসওয়েতে একটি বদ্ধ টোলিং ব্যবস্থা রয়েছে, যার দ্বারা টোল কেবল মাত্র ভ্রমণের দূরত্বের উপর হিসাব করে সংগ্রহ করা হবে এবং পুরো এক্সপ্রেসওয়ের দৈর্ঘ্যের উপর নয়।
  • যানবাহনে বিঘ্নিত মুক্ত চলাচল নিশ্চিত করার জন্য টোলের একটি ইলেকট্রনিক সংগ্রহ ব্যবস্থা আছে।
  • সমস্ত প্রবেশ বিন্দুতে ওজন পরিক্ষা যন্ত্রের দ্বারা অতিরিক্ত লোডযুক্ত যানবাহনগুলি চিহ্নিত করা হয় এবং এক্সপ্রেসওয়েতে প্রবেশ করার অনুমতি থাকবে না অতিরিক্ত পণ্যবহনকারী যানবাহনের। যন্ত্রটি দুটি প্রবেশদ্বারের সমস্ত প্রবেশ বিন্দুতে স্থাপন করা হয়েছে - একটি এক্সপ্রেসওয়েতে প্রবেশের নেতৃত্ব দেয় এবং অন্যটির দ্বারা গাড়ির পুনঃনির্দেশিত হয় যদি এটি বেশি পণ্য বহন করে।
  • ওভারলোড হওয়া ট্রাকগুলির পার্কিংয়ের জন্য ব্যবস্থা আছে, যেখানে তারা কিছু মালামাল ওজনের মানদণ্কেড সন্তুষ্ট করতে পারে এবং তারপর এক্সপ্রেসওয়েতে প্রবেশ করতে পারে।
  • যানবাহনের দ্রুতগতির পরীক্ষা করার জন্য, প্রতি দুই কিলোমিটারে ক্যামেরা স্থাপন করা হয়েছে। অতিরিক্ত গতির যানবাহনগুলিকে টোল প্লাজায় চালান জারি করা হয় এবং চালানের পরিমাণ মোট টোলের সঙ্গের যোগ করা হয়।
  • এক্সপ্রেসওয়ে বরাবর ২.৫ লক্ষ গাছ লাগানো হয়েছে এবং ড্রিপ সেচ ব্যবস্থার মাধ্যমে জল সরবরাহ করা হবে।
  • এক্সপ্রেসওয়ের উভয় পাশে ২.৫ মিটার চওড়া সাইকেল ট্র্যাক তৈরি করা হয়েছে।
  • সৌর প্যানেলগুলি বিভিন্ন স্থানে স্থাপন করা হয়েছে যা এক্সপ্রেসওয়ে আলোকিত করার জন্য শক্তি সরবরাহ করবে। বিদ্যুৎ উৎপাদনের জন্য এক্সপ্রেসওয়ে পার্শ্বে ৪,০০০ কিলোওয়াট (৪ মেগাওয়াট) মোট ক্ষমতা সহ ৮ টি সৌর বিদ্যুৎ কেন্দ্র তৈরি করা হয়েছে।
  • দূষণ হ্রাসে ক্ষেত্র অবদান হিসাবে কয়লা বিদ্যুৎ কেন্দ্রের ফ্লাই এশ ব্যবহার করে মহাসড়কের ৩৩% ভূমির কাজ করা হয়েছিল।
  • এক্সপ্রেসওয়েতে ৪০৬ টি কাঠামো রয়েছে যার মধ্যে ৪ টি বড় সেতু, ৪৬ টি ছোট সেতু, ৩ টি উড়ালপুল, ৭ টি আন্তঃচলন, ২২১ টি আন্ডারপাস এবং রাস্তার ওপরে ৮ টি সেতু।

প্রকল্প স্থিতি আপডেট[সম্পাদনা]

  • ২০১৫ নভেম্বর: ১৩৫ কিলোমিটার দীর্ঘ এক্সপ্রেসওয়ের ভিত্তি প্রস্তর স্থাপন ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর দ্বারা। [১৬]
  • ২০১৬ ফেব্রুয়ারি: এক্সপ্রেসওয়েতে কাজ শুরু হয়েছে। [১৭]
  • ২০১৭ এপ্রিল: আনুমানিক ৬০% কাজ সম্পন্ন হয়। এটি ২০১৭ সালের আগস্ট নাগাদ সম্পন্ন হতে পারে। [১৮]
  • ২০১৭ জুলাই ২৬: আনুমানিক ৭০% কাজ সম্পন্ন হয়েছে। ভারতের সুপ্রিম কোর্ট কর্তৃক নির্ধারিত জুলাই ২০১৮ সালের মেয়াদ শেষ হওয়ার তিন মাস আগে ২০১৮ সালের মার্চে এটি সমাপ্ত হবে। [১৯]
  • ২০১৭ অক্টোবর: বৃহত্তর নয়ডা এলাকায় ভূমি অধিগ্রহণের বিরুদ্ধে বিক্ষোভে কয়েকটি কৃষক সড়ক নির্মাণ জোরপূর্বক বন্ধ করার জন্য সেপ্টেম্বর ২০১৭ এ গ্রেফতার করা হয় এবং পুলিশ বাহিনী সড়কের শ্রমিকদের নিরাপত্তা দেয়ার জন্য নিয়োজিত হয় যাতে সড়ক নির্মান চলতে পারে। [২০]
  • ডিসেম্বর ২০১৭: ৮৫% কাজ সম্পন্ন। বৃহত্তর নয়ডা প্রায় ১ কিলোমিটার দীর্ঘ দুটি স্থানে ভূমি অধিগ্রহণ সংক্রান্ত বিষয় রয়েছে, যা প্রকল্পের সমাপ্তিকে বিলম্বিত করেছে। [২১]
  • এপ্রিল ২০১৮: ২৮ এপ্রিল ২০১৮ সালে এক্সপ্রেসওয়ে উদ্বোধন করার কথা ছিল ভারতীয় প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির। কিন্তু কর্ণাটকের নির্বাচনের কারণে বাতিল করা হয়েছিল। [২২]
  • মে ২০১৮: ভারতের সুপ্রিম কোর্ট ৩১ শে মে ২০১৮ সালের আগে এক্সপ্রেসওয়েটি চালু করতে জাতীয় মহাসড়ক কর্তৃপক্ষ'কে (এনএএইচআইআই ) নির্দেশ দিয়েছে। [২৩]
  • ২৭ মে ২০১৮: প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি এক্সপ্রেসওয়ের উদ্বোধন করেন।

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. "3 projects in Haryana to be completed soon" 
  2. Barman, Sourav Roy (২৮ মে ২০১৮)। "First 'Smart' highway holds out hope for a congested, choking capital"Indian Express। সংগ্রহের তারিখ ৫ জুন ২০১৮ 
  3. "Eastern Peripheral Expressway - Invitation of Proposals" (PDF)। সংগ্রহের তারিখ ৯ জানুয়ারি ২০১৬ 
  4. "Reliance Infrastructure is sole bidder for Eastern Peripheral Expressway"The Economic Times। ২৬ ডিসেম্বর ২০০৮। সংগ্রহের তারিখ ৯ জানুয়ারি ২০১৬ 
  5. "After 9-yr delay, KMP eway to be completed by August" 
  6. "Chaos, theft, accident: All is not well with Delhi's 'smart' eastern expressway" 
  7. "Eastern Peripheral Expressway: Some way to go for the brand new expressway" 
  8. Tiwary, A. K.। "Connectivity, smooth traffic, REAL GROWTH!"Times of India। সংগ্রহের তারিখ ৯ জানুয়ারি ২০১৬ 
  9. "Eastern Peripheral Expressway, Built At Rs 11,000 Crore, To Be Inaugurated Tomorrow"NDTV। সংগ্রহের তারিখ ২৬ মে ২০১৮ 
  10. Keelor, Vandana (৩ জুন ২০১৪)। "New expressway to link Noida with Faridabad"Times of India। সংগ্রহের তারিখ ৫ জুন ২০১৮ 
  11. "Government approves 17,000-crore highways upgradation projects"The Economic Times। সংগ্রহের তারিখ ৯ জানুয়ারি ২০১৬ 
  12. Bhattacharya, Somreet (২৯ মে ২০১৮)। "Day 1 of Eastern Peripheral Expressway: 50,000 fewer trucks in Delhi"Times of India। সংগ্রহের তারিখ ৫ জুন ২০১৮ 
  13. "Eastern Peripheral Expressway inaugurated by PM Modi is likely to decrease Delhi pollution by 27 per cent"India Today। ২৮ মে ২০১৮। সংগ্রহের তারিখ ৫ জুন ২০১৮ 
  14. "Prime Minister Narendra Modi to Inaugurate Eastern Peripheral Expressway on May 27"News18। সংগ্রহের তারিখ ২০১৮-০৫-২৫ 
  15. "India's Eastern Peripheral Expressway boasts of many firsts, to be ready within 500 days"The Economic Times। ২৩ এপ্রিল ২০১৮। ২৩ জুন ২০১৮ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ৫ জুন ২০১৮ 
  16. "Expressway foundation laid by CM" (সংবাদ বিজ্ঞপ্তি)। 
  17. "Expressway construction begins"The Tribune 
  18. "Expressway by 2017"The Hindu 
  19. "KGP e-way may miss August 15 deadline"The Tribune। ২ জুলাই ২০১৭। 
  20. "ईस्टर्न पेरिफेरल एक्सप्रेसवे का निर्माण बंद कराने का मामला" [Eastern Peripheral Expressway work shutdown case]। Navbharat Times। ৯ অক্টোবর ২০১৭। সংগ্রহের তারিখ ৫ জুন ২০১৮ 
  21. "Ring bypasses may be ready in 3 months"Times of India 
  22. "MODI TO OPEN EASTERN PERIPHERAL EXPRESSWAY ON 29 APRIL"The Pioneer। সংগ্রহের তারিখ ২৩ এপ্রিল ২০১৮ 
  23. "Supreme Court directs NHAI to open Easter Peripheral Express way before 31st May 2018"The Hindu। সংগ্রহের তারিখ ১০ মে ২০১৮ 

বহিঃসংযোগ[সম্পাদনা]