হারপেটোলজি

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন

উভচর (amphibians) এবং সরিসৃপ প্রাণীদের নিয়ে কাজ করেন এমন বিজ্ঞানীদের বলা হয় হারপেটোলজিস্ট,[১] আর জীব বিজ্ঞানের যে শাখায় এসব প্রাণীদের নিয়ে আলোচনা করা হয় তাকে হারপেটোলজি বলে। উভচর প্রানীদের মধ্যে ব্যাঙ, স্যালামাণ্ডার, গোসাপ, ও সিসিলিয়ান (জিমনোফোনা), এবং সরিসৃপদের মধ্যে সাপ, গিরগিটি, এম্ফিসবিনিডাই, কচ্ছপ, কুমির, এবং টুয়টারা এ শাখার আলোচ্য বিষয়।

বর্তমানে এ শাখায় প্রায় ৬৭০০-এরও উপরে বিভিন্ন প্রজাতির উভচর [২] ও ৯০০০-এর উপরে সরিসৃপ প্রানী রয়েছে। [৩]

এ বিষয়ের প্রতি প্রচন্ড আগ্রহ থেকে যারা বিভিন্ন প্রজাতির সরিসৃপ অথবা উভচর প্রানী সংগ্রহে রাখেন তাদেরকে ইংরেজীতে 'হারপার' (herpers) বলে। এটি উভচর ও সরিসৃপে প্রানীর একটি ইংরেজী আঞ্চলিক ভাষাযর শব্দ।

বু্তপত্তি[সম্পাদনা]

'হারপেটোলজি' শব্দটি এসেছে গ্রীক শব্দ ἑρπετόν (উচ্চারন: eːɾpetόn, ইংরেজী: herpeton, অর্থ: লতানো পশু) ও -λογία (উচ্চারন: -λοɡίa, ইংরেজী: -logia, অর্থ: লতানো পশু) থেকে। [৪]

'হারপার' হচ্ছে উভচর ও সরিসৃপ প্রানীর একটি আঞ্চলিক ইংরেজী শব্দ, যা কিনা 'হারপারটাইল' শব্দ থেকে এসেছে। কার্ল লিনিয়াস তার প্রানী শ্রেণীবিন্যাসে এ দুইপ্রকার প্রানীদের একই শ্রেনীতে দলভূক্ত করেন।

পাঠ্য[সম্পাদনা]

যদিও বর্তমানে বিভিন্ন স্কুল-কলেজে স্নাতক (এমন কি স্নাতকোত্তর) পর্যায়ের ছাত্র-ছাত্রীরা এটাকে একটি একক পাঠ্য বিষয় হিসেবে নিয়ে পড়াশোনা করতে পারেনা, তবে জীব বিজ্ঞানে এটাকে একটি মৌলিক বিষয় হিসেবে নিতে পারে। প্রানী বিজ্ঞানে অর্জিত প্রায় সবটুকু জ্ঞান এ বিষয়ের উপর প্রয়োগ করা যায়।

পেশা[সম্পাদনা]

পেশা হিসেবে হারপেটোলজি কেবল গবেষণা ক্ষেত্রেই সীমাবদ্ধ নয়—এখন শিক্ষা ও জরিপ, প্রাণিবিদ্যাবিষয়ক কর্মী, জাদুঘরের কর্মী ও মহাবিদ্যালয়ে শিক্ষক হিসেবেও কাজ করা যায়।

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. http://www.dw.com/bn/ঘানায়-ব্যাঙ-বাঁচানোর-অনন্য-এক-উদ্যোগ/a-19484649
  2. "AmphibiaWeb"। AmphibiaWeb। সংগ্রহের তারিখ ২০১২-০৮-১৩ 
  3. "Species Statistics February 2012"। Reptile-database.org। সংগ্রহের তারিখ ২০১২-০৮-১৩ 
  4. "herpers — Community Profile"। Community.livejournal.com। ২০০১-০৬-০৯। সংগ্রহের তারিখ ২০১২-০৮-১৩