ক্যাথরিন বিগেলো

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
ক্যাথরিন বিগেলো
82nd Academy Awards, Kathryn Bigelow - army mil-66453-2010-03-09-180354.jpg
৮২তম একাডেমি পুরস্কার অনুষ্ঠানে বিগেলো, ২০১০
স্থানীয় নামKathryn Bigelow
জন্মক্যাথরিন অ্যান বিগেলো
(১৯৫১-১১-২৭) ২৭ নভেম্বর ১৯৫১ (বয়স ৬৭)
সান কার্লোস, ক্যালিফোর্নিয়া, যুক্তরাষ্ট্র
যে শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের ছাত্র/ছাত্রীসান ফ্রান্সিস্কো আর্ট ইনস্টিটিউট
কলম্বিয়া বিশ্ববিদ্যালয়
পেশা
  • পরিচালকা
  • প্রযোজক
  • চিত্রনাট্যকার
কার্যকাল১৯৭৮–বর্তমান
উল্লেখযোগ্য কাজদ্য হার্ট লকার, জিরো ডার্ক থার্টি, পয়েন্ট ব্রেক
দাম্পত্য সঙ্গীজেমস ক্যামেরন (বি. ১৯৮৯–১৯৯১)
পুরস্কারপূর্ণ তালিকা

ক্যাথরিন অ্যান বিগেলো (ইংরেজি: Kathryn Anne Bigelow; জন্ম: ২৭শে নভেম্বর, ১৯৫১) হলেন একজন মার্কিন চলচ্চিত্র পরিচালক, প্রযোজক ও চিত্রনাট্যকার।[১] তার পরিচালিত চলচ্চিত্রসমূহল হল ভ্যাম্পায়ার পশ্চিমা ভীতিপ্রদ চলচ্চিত্র নিয়ার ডার্ক (১৯৮৭), মারপিঠ অপরাধধর্মী পয়েন্ট ব্রেক (১৯৯১), বিজ্ঞান কল্পকাহিনী মারপিঠধর্মী থ্রিলার স্ট্রেঞ্জ ডেজ (১৯৯৫), রহস্যধর্মী থ্রিলার চলচ্চিত্র দ্য ওয়েট অব ওয়াটার (২০০০), সাবমেরিন থ্রিলার কে-১৯: দ্য উইডোমেকার (২০০২), যুদ্ধের চলচ্চিত্র দ্য হার্ট লকার (২০০৮), মারপিঠধর্মী থ্রিলার যুদ্ধের চলচ্চিত্র জিরো ডার্ক থার্টি (২০১২), স্বল্পদৈর্ঘ্য চলচ্চিত্র লাস্ট ডেজ এবং অপরাধ নাট্যধর্মী ডেট্রয়েট (২০১৭)। দ্য হার্ট লকা ২০০৯ সালে শ্রেষ্ঠ চলচ্চিত্রের জন্য একাডেমি পুরস্কারবাফটা পুরস্কার লাভ করে এবং ২০১০ সালে সেরা নাট্য চলচ্চিত্রের জন্য গোল্ডেন গ্লোব পুরস্কারের মনোনয়ন লাভ করে।

দ্য হার্ট লকার চলচ্চিত্রের জন্য বিগেলো প্রথম নারী পরিচালক হিসেবে শ্রেষ্ঠ পরিচালনার জন্য একাডেমি পুরস্কার,[২] ডিরেক্টরস গিল্ড অব আমেরিকা পুরস্কার,[৩] বাফটা পুরস্কার,[৪]ক্রিটিকস চয়েস চলচ্চিত্র পুরস্কার[৫] লাভ করেন এবং ২০১৭ সাল পর্যন্ত তিনিই একমাত্র নারী পরিচালক হিসেবে এই পুরস্কার লাভ করেন। এছাড়া তিনি ১৯৯৫ সালে স্ট্রেঞ্জ ডেজ চলচ্চিত্রের জন্য প্রথম নারী পরিচালক হিসেবে শ্রেষ্ঠ পরিচালনা বিভাগে স্যাটার্ন পুরস্কার লাভ করেন।

২০১০ সালের এপ্রিলে টাইম ১০০ বছরের সবচেয়ে প্রভাবশালী ব্যক্তিদের তালিকায় বিগেলোর নাম আসে।[৬]

পরিচালনা কর্মজীবন[সম্পাদনা]

বিগেলো ২০০৮ সালে দ্য হার্ট লকার চলচ্চিত্র পরিচালনা করেন। ছবিটির উদ্বোধনী প্রদর্শনী হয় ২০০৮ সালের সেপ্টেম্বরে ভেনিস চলচ্চিত্র উৎসবে ও ২০০৯ সালের মে মাসে ম্যারিল্যান্ড চলচ্চিত্র উৎসবের শেষের রাতের প্রদর্শনীর জন্য নির্বাচিত হয় এবং ২০০৯ সালের জুনে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের প্রেক্ষাগৃহে মুক্তি পায়। অস্কারের নিয়ম অনুযায়ী ২০০৯ সালের মাঝামাঝিতে লস অ্যাঞ্জেলেসে মুক্তি না পাওয়ায় ছবিটি ২০১০ সালে অস্কারে মনোনীত হয়। ইরাক আক্রমণের পরবর্তী সময়ের প্রেক্ষাপটে নির্মিত চলচ্চিত্রটি মেটাক্রিটিক অনুসারে "বিশ্বব্যাপী সমাদৃত" হয়[৭] এবং ৯৮% রেটিং স্কোর নিয়ে রটেন টম্যাটোসের সমালোচকদের দৃষ্টিতে "তাজা" স্বীকৃতি লাভ করে।[৮] এতে প্রধান চরিত্রে অভিনয় করেন জেরেমি রেনার, ব্রায়ান গেরাটি ও অ্যান্থনি ম্যাককি। বিগেলো ২০০৯ সালে শ্রেষ্ঠ পরিচালকের জন্য ডিরেক্টরস গিল্ড অব আমেরিকা পুরস্কার লাভ করেন ও শ্রেষ্ঠ চলচ্চিত্র পরিচালকের জন্য গোল্ডেন গ্লোব পুরস্কারের মনোনয়ন লাভ করেন। পরের বছর ২০১০ সালে তিনি শ্রেষ্ঠ পরিচালনা বিভাগে বাফটা পুরস্কারএকাডেমি পুরস্কার লাভ করেন।[৯] তিনি প্রথম নারী চলচ্চিত্র পরিচালক হিসেবে বাফটা ও একাডেমি পুরস্কার লাভ করেন।[১০]

বিগেলোর পরবর্তী চলচ্চিত্র ছিল জিরো ডার্ক থার্টি (২০০৯)। এতে ওসামা বিন লাদেনকে খুঁজতে মার্কিন প্রচেষ্টার নাট্যধর্মী উপস্থাপন দেখানো হয়েছে। জিরো ডার্ক থার্টি চলচ্চিত্রটি সমালোচকদের দ্বারা সমাদৃত হয়,[১১] কিন্তু এতে প্রদর্শিত দমন-পীড়ণ নিয়ে বিতর্ক হয় এবং তীব্র সমালোচনা হয়।[১২] বিগেলো এই চলচ্চিত্রের জন্য শ্রেষ্ঠ চলচ্চিত্র পরিচালক বিভাগে নিউ ইয়র্ক ফিল্ম ক্রিটিকস সার্কেল পুরস্কার লাভ করেন। তিনি প্রথম নারী পরিচালক হিসেবে দুইবার এই পুরস্কার লাভ করেন। পূর্বে তিনি দ্য হার্ট লকার চলচ্চিত্র পরিচালনার জন্য এই পুরস্কার লাভ করেছিলেন।[১৩] এছাড়া তিনি জিরো ডার্ক থার্টি চলচ্চিত্রের জন্য শ্রেষ্ঠ পরিচালক বিভাগে জাতীয় রিভিউ বোর্ড পুরস্কার লাভ করেন, যা কোন নারী পরিচালকের জন্য প্রথম পুরস্কার।[১৪]

অন্যান্য কাজ[সম্পাদনা]

১৯৮০ এর দশকের শুরুর দিকে বিগেলো গ্যাপের বিজ্ঞাপনের মডেল হন। ১৯৮৩ সালে তিনি লিজি বোর্ডেনের ফ্লেমস চলচ্চিত্রে নারীবাদী সংবাদপত্রের সম্পাদকের ভূমিকায় অভিনয় করেন। ১৯৮৮ সালে তিনি মার্টিনি র‍্যাঞ্চের "রিচ" গানের মিউজিক ভিডিওতে কাউগার্ল দলের প্রধান ভূমিকায় অভিনয় করেন। এই মিউজিক ভিডিওটি পরিচালনা করেছিলেন তার সাবেক স্বামী জেমস ক্যামেরন

ব্যক্তিজীবন[সম্পাদনা]

বিগেলো ১৯৮৯ সালে পরিচালক জেমস ক্যামেরনকে বিয়ে করেন। ১৯৯১ সালে তাদের বিবাহ বিচ্ছেদ হয়। তিনি এবং ক্যামেরন দুজনেই ২০০৯ সালে শ্রেষ্ঠ পরিচালনার জন্য একাডেমি পুরস্কারের মনোনয়ন লাভ করেন, এবং বিগেলো পুরস্কার জয় করেন।

পুরস্কার[সম্পাদনা]

আরও দেখুন[সম্পাদনা]

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. "Bigelow, Kathryn"। Current Biography Yearbook 2010 (ইংরেজি ভাষায়)। Ipswich, MA: H.W. Wilson। ২০১০। পৃষ্ঠা 38–42। আইএসবিএন 9780824211134 
  2. "'Hurt Locker' wins best picture, director" (ইংরেজি ভাষায়)। Today.msnbc.msn.com। মার্চ ৮, ২০১০। সংগ্রহের তারিখ ২৭ নভেম্বর ২০১৭ 
  3. "First woman to win top Guild's award" (ইংরেজি ভাষায়)। গালফ টাইম। জানুয়ারি ৩১, ২০১০। সংগ্রহের তারিখ ২৭ নভেম্বর ২০১৭ 
  4. "Kathryn Bigelow wins best director BAFTA for 'Hurt Locker' over James Cameron's 'Avatar'" (ইংরেজি ভাষায়)। New York: নিউ ইয়র্ক ডেইলি নিউজ। ফেব্রুয়ারি ২১, ২০১০। সংগ্রহের তারিখ ২৭ নভেম্বর ২০১৭ 
  5. Roberts, Soraya (জানুয়ারি ১৬, ২০১০)। "Critic's Choice Awards 2010: Sandra Bullock, Meryl Streep kiss; Kathryn Bigelow is Best Director" (ইংরেজি ভাষায়)। New York: নিউ ইয়র্ক ডেইলি নিউজ। সংগ্রহের তারিখ ২৭ নভেম্বর ২০১৭ 
  6. Stone, Oliver (এপ্রিল ২৯, ২০১০)। "Kathryn Bigelow"টাইম। The 2010 TIME 100 (ইংরেজি ভাষায়)। সংগ্রহের তারিখ ২৭ নভেম্বর ২০১৭ 
  7. "The Hurt Locker" (ইংরেজি ভাষায়)। মেটাক্রিটিক। সংগ্রহের তারিখ ২৭ নভেম্বর ২০১৭ 
  8. "The Hurt Locker (2009)" (ইংরেজি ভাষায়)। রটেন টম্যাটোস। ডিসেম্বর ১৫, ২০০৯। সংগ্রহের তারিখ ২৭ নভেম্বর ২০১৭ 
  9. Roberts, Soraya (ফেব্রুয়ারি ২২, ২০১০)। "Prince William becomes President at 2010 BAFTA awards; Kathryn Bigelow wins best director"নিউ ইয়র্ক ডেইলি নিউজ (ইংরেজি ভাষায়)। সংগ্রহের তারিখ ২৭ নভেম্বর ২০১৭ 
  10. Weaver, Matthew (মার্চ ৮, ২০১০)। "Kathryn Bigelow makes history as first woman to win best director Oscar"দ্য গার্ডিয়ান (ইংরেজি ভাষায়)। London। সংগ্রহের তারিখ ২৭ নভেম্বর ২০১৭ 
  11. "Zero Dark Thirty"মেটাক্রিটিক (ইংরেজি ভাষায়)। সংগ্রহের তারিখ ২৭ নভেম্বর ২০১৭ 
  12. Child, Ben (জানুয়ারি ৯, ২০১৩)। "Zero Dark Thirty premiere sparks anti-torture protest"দ্য গার্ডিয়ান (ইংরেজি ভাষায়)। London। সংগ্রহের তারিখ ২৭ নভেম্বর ২০১৭ 
  13. Polo, Susana (ডিসেম্বর ৪, ২০১২)। "Kathryn Bigelow Wins New York Film Critics Circle Award Twice; Makes History"The Mary Sue (ইংরেজি ভাষায়)। সংগ্রহের তারিখ ২৭ নভেম্বর ২০১৭ 
  14. "NBR Awards name 'Zero Dark Thirty' best film"boston.com (ইংরেজি ভাষায়)। ৫ ডিসেম্বর ২০১২। সংগ্রহের তারিখ ২৭ নভেম্বর ২০১৭ 

বহিঃসংযোগ[সম্পাদনা]