সামান্থা মর্টন

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
Jump to navigation Jump to search
সামান্থা মর্টন
Samantha Morton Edinburgh International Film Festival.png
২০০৮ সালে এডিনবার্গ আন্তর্জাতিক চলচ্চিত্র উৎসবে মর্টন
স্থানীয় নাম Samantha Morton
জন্ম সামান্থা জেন মর্টন
(১৯৭৭-০৫-১৩) ১৩ মে ১৯৭৭ (বয়স ৪১)
ক্লিফটন, নটিংহাম, ইংল্যান্ড
বাসস্থান ডার্বিশায়ার, ইংল্যান্ড
জাতীয়তা ব্রিটিশ
পেশা অভিনেত্রী, চিত্রনাট্যকার, পরিচালক
কার্যকাল ১৯৯১-বর্তমান
সঙ্গী চার্লি ক্রিড-মিলস (১৯৯৯-২০০০)
হ্যারি হোম (২০০৫-বর্তমান)
সন্তান

সামান্থা জেন মর্টন (ইংরেজি: Samantha Jane Morton জন্ম ১৩ই মে ১৯৭৭)[১][২] হলেন একজন ইংরেজ অভিনেত্রী, চিত্রনাট্যকার ও পরিচালক। তিনি একটি গোল্ডেন গ্লোব পুরস্কার, একটি বাফটা পুরস্কার ও একটি বিফা পুরস্কার অর্জন করেছেন এবং একটি এমি পুরস্কার ও দুটি একাডেমি পুরস্কারে মনোনীত হয়েছেন।

নটিংহামে বেড়ে ওঠা মর্টন সেন্ট্রাল জুনিয়র টেলিভিশন ওয়ার্কশপে যোগ দেন এবং ১৯৯১ সাল থেকে ব্রিটিশ টেলিভিশন পর্দায় কাজ শুরু করেন। তিনি সোলজার সোলজারক্র্যাকার টেলিভিশন ধারাবাহিকে অতিথি ভূমিকায় এবং ১৯৯৫ থেকে ১৯৯৬ সালে আইটিভির ব্যান্ড অব গোল্ড ধারাবাহিকে অভিনয় করেন। নাট্যধর্মী এমা (১৯৯৬),জেন আইয়ার (১৯৯৭), ও আন্ডার দ্য স্কিন (১৯৯৭) চলচ্চিত্র দিয়ে তার বড় পর্দায় সুনাম অর্জন করেন। আন্ডার স্য স্কিনের সাফল্যের পর উডি অ্যালেন তাকে সুইট অ্যান্ড লোডাউন (১৯৯৯) চলচ্চিত্রে কাজের সুযোগ দেন এবং এই কাজের জন্য তিনি শ্রেষ্ঠ পার্শ্ব অভিনেত্রী বিভাগে একাডেমি পুরস্কারগোল্ডেন গ্লোব পুরস্কারের মনোনয়ন লাভ করেন।

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. "Birth Registration Details"Ancestry.com। ২ আগস্ট ২০১২ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ১৩ মে ২০১৮ 
  2. অ্যাডলি, ইস্থার (৪ অক্টোবর ২০০৭)। "Profile: Samantha Morton – 'I think she is attracted to women who have difficulties. It's very emotional when she takes a role to extremes ...'"দ্য গার্ডিয়ান। সংগ্রহের তারিখ ১৩ মে ২০১৮ 

বহিঃসংযোগ[সম্পাদনা]