শ্বেতা তিওয়ারী

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
শ্বেতা তিওয়ারী
Shweta Tiwari on 'Jhalak Dikhhla Jaa Season 6'.jpg
২০১৪ সালে শ্বেতা
জন্ম (1980-10-04) ৪ অক্টোবর ১৯৮০ (বয়স ৩৯)[১][২]
প্রতাপগড়, উত্তর প্রদেশ, ভারত[২]
বাসস্থানকান্ডবলি, মুম্বাই[৩]
জাতীয়তাভারতীয়
পেশাঅভিনেত্রী, টেলিভিশন উপস্থাপক, মডেল
কার্যকাল১৯৯৯-বর্তমান
দাম্পত্য সঙ্গীরাজা চৌধুরী (বি. ১৯৯৮; বিচ্ছেদ. ২০০৭)অভিনব কোহলী (বি. ২০১৩)
সন্তান

শ্বেতা তিওয়ারী (জন্মঃ ১৯৮০) ভারতের একজন টেলিভিশন অভিনেত্রী। তিনি হিন্দি চ্যানেল স্টার প্লাস এর ২০০১ সালে শুরু হওয়া ধারাবাহিক নাটক কাসৌটি যিন্দেগী কে তে প্রেরণা শর্মা নামক চরিত্রে অভিনয়ের জন্য পরিচিতি পেয়েছিলেন।[৪] শ্বেতা অভিনীত আরেকটি গুরুত্বপূর্ণ নাটক হলো পারভারিশ যেটা সনি টিভিতে ২০১১ থেকে ২০১৩ সালে প্রচারিত হতো।[৫]

ব্যক্তিগত জীবন[সম্পাদনা]

২০১২ সালে মেয়ে পলকের সঙ্গে শ্বেতা

১৯৯৮ সালে টেলিভিশন অভিনেতা রাজা চৌধুরীকে বিয়ে করেন শ্বেতা। ২০০৭ সালে শ্বেতা বিয়ের মাত্র নয় বছরের মাথায় তালাকের আবেদন করেন।[৬] শ্বেতা রাজার বিরুদ্ধে অভিযোগ তোলেন বৈবাহিক ধর্ষণ এবং তাকে প্রায় প্রতিদিন মানসিক-শারীরিক নির্যাতনের।[৭][৮] রাজা এবং শ্বেতার পলক নামের একটি কন্যা হয়েছিলো যে এখন শ্বেতার সঙ্গেই থাকে।[৯]

২০১৩ সালে ১৩ জুলাই তিন বছর প্রেম করার পর বেকার পুরুষ অভিনব কোহলীর সঙ্গে বিবাহবন্ধনে আবদ্ধ হন শ্বেতা।[১০] ২০১৬ সালের ২৭শে নভেম্বর শ্বেতার একটি পুত্রসন্তান জন্ম লাভ করে।[১১][১২] ২০১৭ সাল থেকে অভিনব এবং শ্বেতার মধ্যে দ্বন্দ্ব শুরু হয়।[১৩] ২০১৯ এর আগস্টে শ্বেতা মুম্বাই পুলিশের কাছে অভিনবের বিরুদ্ধে অভিযোগ তোলেন যে অভিনব পলককে থাপ্পড় মারে এবং মানসিক ভাবে অত্যাচার করে। এছাড়াও তিনি তার মেয়েকে অভিনব ধর্ষণ করতে চায় বলেও পুলিশের কাছে বলেন এবং অভিনবকে গ্রেফতার করে পুলিশ।[১৪][১৫]

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. Farzeen, Sana (৪ অক্টোবর ২০১৭)। "Happy Birthday Shweta Tiwari: Salute to a woman who aced all her roles"The Indian Express। সংগ্রহের তারিখ ১৩ এপ্রিল ২০১৯ 
  2. "Shweta Tiwari birthday: Some facts about the 'Kasautii Zindagii Kay' actress"Times Now। ৪ জানুয়ারি ২০১৮। সংগ্রহের তারিখ ১৩ এপ্রিল ২০১৯ 
  3. "TV celebs galore at Shweta Tiwari's house party"mid-day (ইংরেজি ভাষায়)। ১১ জুন ২০১৮। সংগ্রহের তারিখ ২০ মে ২০১৯ 
  4. "Shweta Tiwari Profile on In.com" 
  5. "Shweta Tiwari and Rupali Ganguly on Parvarish"in.com (ইংরেজি ভাষায়)। সংগ্রহের তারিখ ২৪ সেপ্টেম্বর ২০১৯ 
  6. "Shweta files for divorce"The Telegraph – Calcutta। Calcutta, India। ২১ জুন ২০০৭। সংগ্রহের তারিখ ৪ অক্টোবর ২০১০ 
  7. "TV actresses who were victims of domestic violence" 
  8. "Raja Chaudhary gets bail after beating up Shweta Tiwari"The Indian Express (ইংরেজি ভাষায়)। ২৭ জানুয়ারি ২০১১। সংগ্রহের তারিখ ১২ আগস্ট ২০১৯ 
  9. "Shweta Tiwari's daughter Palak turns 17, actor shares special birthday wish for her sweetheart"The Indian Express (ইংরেজি ভাষায়)। ৮ অক্টোবর ২০১৭। সংগ্রহের তারিখ ১২ আগস্ট ২০১৯ 
  10. Kavita Awaasthi (১১ অক্টোবর ২০১২)। "He sacrificed our daughter for property: Shweta Tiwari"The Hindustan Times। ১৫ অক্টোবর ২০১২ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২১ অক্টোবর ২০১২ টেমপ্লেট:Not in ref
  11. "Shweta Tiwari gives birth to baby boy"indianexpress.com। ২ ডিসেম্বর ২০১৬। সংগ্রহের তারিখ ১৯ জুন ২০১৮ 
  12. "Shweta Tiwari promises something beautiful to son Reyansh on his birthday, see photos"The Indian Express (ইংরেজি ভাষায়)। ৫ ডিসেম্বর ২০১৭। সংগ্রহের তারিখ ১২ আগস্ট ২০১৯ 
  13. "All is not well between Shweta Tiwari and husband Abhinav Kohli?"The Indian Express (ইংরেজি ভাষায়)। ১৬ অক্টোবর ২০১৭। সংগ্রহের তারিখ ১২ আগস্ট ২০১৯ 
  14. "Shweta Tiwari files domestic violence case against husband Abhinav Kohli"The Indian Express (ইংরেজি ভাষায়)। ১২ আগস্ট ২০১৯। সংগ্রহের তারিখ ১২ আগস্ট ২০১৯ 
  15. "TV actor's daughter opens up about allegations against stepfather"The Indian Express (ইংরেজি ভাষায়)। ১৩ আগস্ট ২০১৯। সংগ্রহের তারিখ ১৩ আগস্ট ২০১৯ 

বহিঃসংযোগ[সম্পাদনা]