দ্য সাইলেন্স অব দ্য ল্যাম্বস (চলচ্চিত্র)

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
দ্য সাইলেন্স অব দি ল্যাম্বস
দ্য সাইলেন্স অব দ্য ল্যাম্বস (১৯৯১) পোস্টার.jpg
প্রেক্ষাগৃহে মুক্তির পোস্টার
পরিচালকজোনাথন ডেমি
প্রযোজক
চিত্রনাট্যকারটেড টেলি
উৎসটমাস হ্যারিস কর্তৃক 
দি সাইলেন্স অব দি ল্যাম্বস
শ্রেষ্ঠাংশে
সুরকারহাওয়ার্ড শোর
চিত্রগ্রাহকতাক ফুজিমতো
সম্পাদকক্রেইগ ম্যাককে
পরিবেশকওরিয়ন পিকচার্স
মুক্তি
  • ১৪ ফেব্রুয়ারি ১৯৯১ (1991-02-14) (মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র)
দৈর্ঘ্য১১৮ মিনিট[১]
দেশমার্কিন যুক্তরাষ্ট্র
ভাষাইংরেজি
নির্মাণব্যয়১৯ (US$০.২৬)[২]
আয়$২৭২,৭৪২,৯২২[২]

দ্য সাইলেন্স অব দি ল্যাম্বস (ইংরেজি: The Silence of the Lambs) ১৯৯১ সালের আমেরিকান থ্রিলার, যেখানে চলচ্চিত্রের অপরাধ এবং ভৌতিক ধরার মিশ্রন ঘটেছে।[৩] যা টমাস হ্যারিসের হ্যানিবাল লেক্টারের দ্বিতীয় অংশ, ১৯৮৮ সালের একই নামের উপন্যাসের উপর ভিত্তি করে নির্মিত হয়েছে। জোনাথন ডেমি পরিচালিত এই চলচ্চিত্রের অভিযোজিত চিত্রনাট্য লিখেছেন টেড ট্যালি এবং অভিনয়ে ছিলেন জোডি ফস্টার, অ্যান্থনি হপকিন্স এবং স্কট গ্লেন। এটি একটি উজ্জ্বল মনোচিকিৎসক এবং স্বজাতীগ্রাসী ক্রমিক হত্যাকারী সংক্রান্ত চলচ্চিত্র।

চলচ্চিত্রে ক্লারিস স্টার্লিং একজন তরুণ মার্কিন এফবিআই শিক্ষানবিস, যিনি "বাফেলো বিল" নামে পরিচিত আরেকজন ক্রমিক হত্যাকারীকে কারারুদ্ধের বিষয়ে ড. লেক্টারের পরামর্শ নেন।

কাহিনীসংক্ষেপ[সম্পাদনা]

এফবিআই শিক্ষানবিশ ক্লারিস স্টার্লিং ড. হ্যানিবাল লেক্টারের সাথে সাক্ষাত করতে যায়। লেক্টার একজন প্রাক্তন মনোচিকিৎসক, যিনি একাধিক খুন করেছেন এবং নরখাদক হিসেবে কারাগারে যাবজ্জীবন সাজা ভোগ করছেন। এদিকে এফবিআই অনেকদিন ধরে খুনি বাফেলো বিলকে খুঁজছে। বিল খুন করার পর নিহতের গায়ের চাম,ড়া ছাড়িয়ে নিতেন। এফবিআই বিলকে ধরতে লেক্টারের সহায়তা আশা করে। বর্তমানে ইউ.এস. সিনেটরের মেয়েকে বন্দি করেছে বিল। স্টার্লিংআশা করে লেক্টার এই খুনির সম্পর্কে বিভিন্ন খবর দিতে পারবেন।

অভিনয়ে[সম্পাদনা]

সঙ্গীত[সম্পাদনা]

দ্য সাইলেন্স অব দ্য ল্যাম্বস: দি অরিজিনাল মোশন পিকচার্স স্কোর
হাওয়ার্ড শোর-এর চলচ্চিত্র স্কোর সঙ্গীত-সঙ্কলন
মুক্তির তারিখফেব্রেুয়ারি ৫, ১৯৯১
শব্দধারণের সময়অগস্ট, ১৯৯০ মিউনিখ
সঙ্গীত প্রকাশনীএমসিএ রেকর্ডস
প্রযোজকহাওয়ার্ড শোর
হাওয়ার্ড শোর কালক্রম
বিগ
(১৯৮৮)বিগ১৯৮৮
দ্য সাইলেন্স অব দ্য ল্যাম্বস
(১৯৯১)
নেকেড লাঞ্চ
(১৯৯১)নেকেড লাঞ্চ১৯৯১



পেশাদারী মূল্যায়ন
পর্যালোচনা স্কোর
উৎসমূল্যায়ন
অলমিউজিক৪/৫ তারকা
Filmtracks.com৩/৫ তারকা
দ্য সাইলেন্স অব দ্য ল্যাম্বস: দি অরিজিনাল মোশন পিকচার্স স্কোর
নং.শিরোনামদৈর্ঘ্য
১."মেইন টাইটেল"৫:০৪
২."দি এসাইলাম"৩:৫৩
৩."ক্লাইরাইস"৩:০৩
৪."রিটার্ন টু দি এসাইলাম"২:৩৫
৫."দি এ্যবডাকশন"৩:০১
৬."কুইড প্রো কুও"৪:৪১
৭."লেক্টারর ইন মেমফিস"৫:৪১
৮."ল্যাম্বস স্ক্রিমিং"৫:৩৪
৯."লেক্টার এস্কেপস"৫:০৬
১০."বেলভাডের, চিও"৩:৩২
১১."দ্য মথ"২:২০
১২."দ্য সেলার"৭:০২
১৩."ফিনালে"৪:৫০
মোট দৈর্ঘ্য:৫৭:০৯

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. "THE SILENCE OF THE LAMBS (18)"Rank Film DistributorsBritish Board of Film Classification। জানুয়ারি ৮, ১৯৯১। সংগ্রহের তারিখ সেপ্টেম্বর ২০, ২০১৩ 
  2. "The Silence of the Lambs"। Box Office Mojo। 
  3. Matt Zoller Seitz (২০১০-০৯-১০)। "Trash-talking nine classic movies: "The Silence of the Lambs""Salon। সংগ্রহের তারিখ ২০১২-১১-২৬ 

বহিঃসংযোগ[সম্পাদনা]