মন সুদ

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
মন সুদ
মন সুদ.jpg
ব্যক্তিগত তথ্য
পূর্ণ নামমন মোহন সুদ
জন্ম৬ জুলাই, ১৯৩৯
লাহোর, পাঞ্জাব প্রদেশ, ব্রিটিশ ভারত
মৃত্যু১৯ জানুয়ারি, ২০২০
ব্যাটিংয়ের ধরনডানহাতি
ভূমিকাব্যাটসম্যান
আন্তর্জাতিক তথ্য
জাতীয় পার্শ্ব
একমাত্র টেস্ট
(ক্যাপ ৯৮)
১৩ জানুয়ারি ১৯৬০ বনাম অস্ট্রেলিয়া
খেলোয়াড়ী জীবনের পরিসংখ্যান
প্রতিযোগিতা টেস্ট এফসি
ম্যাচ সংখ্যা ৩৫
রানের সংখ্যা ১২১৪
ব্যাটিং গড় ১.৫০ ২৮.২৩
১০০/৫০ -/- ১/৯
সর্বোচ্চ রান ১৭০
বল করেছে ২৫২
উইকেট
বোলিং গড় ৭৭.৫০
ইনিংসে ৫ উইকেট
ম্যাচে ১০ উইকেট
সেরা বোলিং ১/১৩
ক্যাচ/স্ট্যাম্পিং -/- ৬/-
উৎস: ইএসপিএনক্রিকইনফো.কম, ২৯ জানুয়ারি ২০২০

মন মোহন সুদ (এই শব্দ সম্পর্কেউচ্চারণ ; হিন্দি: मन सूद; জন্ম: ৬ জুলাই, ১৯৩৯ - মৃত্যু: ১৯ জানুয়ারি, ২০২০) তৎকালীন ব্রিটিশ ভারতের পাঞ্জাব প্রদেশের লাহোর এলাকায় জন্মগ্রহণকারী ভারতীয় আন্তর্জাতিক ক্রিকেটার ছিলেন। ভারত ক্রিকেট দলের অন্যতম সদস্য ছিলেন তিনি। ১৯৬০ সালে সংক্ষিপ্ত সময়ের জন্যে ভারতের পক্ষে আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে অংশগ্রহণ করেছেন।[১]

ঘরোয়া প্রথম-শ্রেণীর ভারতীয় ক্রিকেটে দিল্লি দলের প্রতিনিধিত্ব করেন মন সুদ। দলে তিনি মূলতঃ ডানহাতি ব্যাটসম্যান হিসেবে খেলতেন।

প্রথম-শ্রেণীর ক্রিকেট[সম্পাদনা]

১৯৫৬-৫৭ মৌসুম থেকে ১৯৬৫-৬৬ মৌসুম পর্যন্ত মন সুদের প্রথম-শ্রেণীর খেলোয়াড়ী জীবন চলমান ছিল। বিশ্ববিদ্যালয়ের ক্রিকেট খেলোয়াড়ী জীবনে চমৎকার রেকর্ড গড়েছিলেন মন সুদ। স্ট্রোকের ফুলঝুরি ছোটাতেন।

১৯৫৭ সালের ফিরোজ শাহ কোটলা মাঠে সার্ভিসেস দলের বিপক্ষে প্রথম-শ্রেণীর ক্রিকেটে অভিষেক ঘটে তার। ১৯৬৪ সালে নিজস্ব সর্বশেষ রঞ্জী ট্রফির খেলায় জম্মু ও কাশ্মীরের বিপক্ষে খেলেছিলেন তিনি। দীর্ঘদিনব্যাপী প্রথম-শ্রেণীর খেলোয়াড়ী জীবনে এক সেঞ্চুরি সহযোগে ২৮.২৩ গড়ে ১২১৪ রান সংগ্রহ করেন। সর্বমোট ৩৯টি প্রথম-শ্রেণীর ক্রিকেট খেলায় অংশ নিয়েছিলেন।

আন্তর্জাতিক ক্রিকেট[সম্পাদনা]

সমগ্র খেলোয়াড়ী জীবনে একটিমাত্র টেস্টে অংশগ্রহণ করেছেন মন সুদ। ১৩ জানুয়ারি, ১৯৬০ তারিখে চেন্নাইয়ে সফরকারী অস্ট্রেলিয়া দলের বিপক্ষে টেস্ট ক্রিকেটে অভিষেক ঘটে তার। এটিই তার একমাত্র টেস্টে অংশগ্রহণ ছিল। এরপর আর তাকে কোন টেস্টে অংশগ্রহণ করতে দেখা যায়নি।

১৯৫৯-৬০ মৌসুমে রিচি বেনো’র নেতৃত্বাধীন অস্ট্রেলিয়া দল ভারত গমন করে। এ সফরেই মাদ্রাজ টেস্টে অংশগ্রহণ করেন তিনি। ও ৩ রান তুলে উভয় ইনিংসে অ্যালান ডেভিডসনের শিকারে পরিণত হন তিনি। প্রথম ইনিংসে অপ্রত্যাশিতভাবে আউট হন। বামহাতি পেসারের ঐ বলে ওয়ালি গ্রাউট স্ট্যাম্পিং করেছিলেন। ঐ টেস্টে তার দল ইনিংস ও ৫৫ রানে পরাজয়বরণ করেছিল।

অবসর[সম্পাদনা]

খেলোয়াড়ী জীবন থেকে অবসর গ্রহণের পর ১৯৮৫-৮৬ মৌসুমে দিল্লি ক্রিকেট প্রশাসনে কাজ করেন। এছাড়াও, টেস্ট দল নির্বাচকের ভূমিকায় অবতীর্ণ হয়েছিলেন তিনি। অত্যন্ত বন্ধুবৎসল ছিলেন।

১৯ জানুয়ারি, ২০২০ তারিখে ৮১ বছর বয়সে মন সুদের দেহাবসান ঘটে।

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

আরও দেখুন[সম্পাদনা]

বহিঃসংযোগ[সম্পাদনা]