খলিল রহমান

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
খলিল রহমান
Khalil.jpg
জন্ম (1983-04-16) ১৬ এপ্রিল ১৯৮৩ (বয়স ৩৬)
জাতীয়তাবাংলাদেশি
শিক্ষাস্নাতকোত্তর (রাষ্ট্রবিজ্ঞান)
পেশাকার্টুনিস্ট
কার্যকাল২০০৩-বর্তমান
উল্লেখযোগ্য কর্ম
রাজনৈতিক কার্টুন
ওয়েবসাইটkhalilrahman.com

খলিল রহমান (জন্ম: ১৬ই এপ্রিল, ১৯৮৩) বাংলাদেশের একজন রাজনৈতিক কার্টুনিস্ট। তার করা কার্টুন স্থান পেয়েছে বেশকিছু নেত্রীস্থানীয় বাংলা সংবাদপত্রের সামনের পাতায়, যার মধ্যে রয়েছে দৈনিক যুগান্তর এবং দৈনিক সমকাল[১][২][৩][৪]

জীবনী[সম্পাদনা]

খলিল রহমান ১৯৮৩ সালে জন্মগ্রহণ করেন এবং ঝিনাইদহ জেলার একটি ছোট গ্রামে তার শৈশব কাটে। তার স্কুলের দিনগুলি থেকে তিনি জাতীয় দৈনিকসমূহের জন্য কার্টুন আঁকতেন। কিন্তু রাজনৈতিক কার্টুনিস্ট হিসেবে তিনি তার কর্মজীবন শুরু করেন "নিউ ন্যাশন" পত্রিকায় ২০০৩ সালে, এসময় তিনি বিশ্ববিদ্যালয়ে অধ্যয়নরত ছিলেন।[৫] এই পত্রিকায় তিনি ২ বছর কাজ করার পর তিনি যোগ দেন করেন একটি বাংলা দৈনিক পত্রিকায়। খলিল রহমান এই পত্রিকার জন্য কাজ করেন প্রায় ৩ বছর। এরপর, তিনি কার্টুনিস্ট পদে যোগদান করেন শীর্ষস্থানীয় জাতীয় দৈনিক সমকালে। তার আঁকা কার্টুন ৫ বছর ধরে নিয়মিতভাবে প্রকাশিত হত এই দৈনিকের প্রথম পাতায়। বর্তমানে খলিল রহমান রাজনৈতিক কার্টুনিস্ট হিসাবে বাংলাদেশের জনপ্রিয় দৈনিক পত্রিকা দৈনিক যুগান্তরে কাজ করছেন।[৬]

কার্টুন[সম্পাদনা]

তার কর্মজীবনের প্রারম্ভিক দিন থেকেই তার রাজনৈতিক কার্টুনগুলো শক্তিশালী বার্তা বহন করত। তার কার্টুনগুলোতে বেশিরভাগই রাজনৈতিক সহিংসতা, অবিচার, দুর্নীতি, ঢাকা শহরের ট্রাফিক জ্যাম, এর লোড শেডিং তার পাশাপাশি সামাজিক অশুভ শক্তিগুলোর বিরুদ্ধে বার্তার প্রতিফলন দেখা যায়।[৭] আন্তর্জাতিকভাবে তার কার্টুনগুলো প্রচারিত হয় সিএজিএলই ডটকম (cagle.com) এর মাধ্যমে। সিএজিএলই হল সারা বিশ্বের মধ্যে অন্যতম জনপ্রিয় ও বৃহৎ সম্পাদকীয় কার্টুনের ওয়েবসাইট, যাতে প্রকাশিত হয় বিশ্বের ৮৫০টিরও বেশি পত্রিকার সম্পাদকীয় কার্টুন এবং কলাম।[৮] খলিলের কার্টুনের আঁচরের ভিতর কোন একটি ঘটনার পিছনে লুকানো সত্য ঘটনা খুঁজে বের করার ক্ষমতা রয়েছে।[৯] তার কার্টুন সম্পর্কে আমেরিকার পুলিৎজার পুরস্কার বিজয়ী কার্টুনিস্ট স্টিভি সেক বলেছেন, 'খলিল রহমান এর কার্টুন গুলো হল টাটকা ও রসাত্মক চাক্ষুষ আনন্দ। তার স্পন্দনশীল অঙ্কন শৈলীর সঙ্গে তিনি বিজ্ঞের মত মন্তব্য করেছে আজকের বিষয়বালীর উপর চতুরতা ও চারুতা বজায় রেখে।"[১০] বাংলাদেশের বিখ্যাত কার্টুনিস্ট রফিকুন নবী (রনবী), শিশির ভট্টাচার্য্য প্রমুখ তার কার্টুনের প্রশংসা করেছে।[১১] [১২]

বই[সম্পাদনা]

  • খলিলের নির্বাচিত কার্টুন (২০১৪) [১৩][১৪]

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. "বাংলা ট্রিবিউন » কার্টুনিস্ট কী বার্তা দিচ্ছেন সেটি খুব গুরুত্বপূর্ণ : খলিল রহমান"বাংলা ট্রিবিউন। ২০১৫-০২-২৪ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। 
  2. "একজন রাজনৈতিক কার্টুনিস্ট একজন কলামিস্টের মতো : খলিল রহমান"Toons Mag 
  3. "The Best Works of Cartoonist Khalil"Toons Mag। ১৩ ফেব্রুয়ারি ২০১৭ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ১০ সেপ্টেম্বর ২০১৭ 
  4. "খলিলের কার্টুন"এনটিভি অনলাইন। ২০ ফেব্রুয়ারি ২০১৫ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। 
  5. "Khaliler Nirbachita Cartoon (Khalil's Selected Cartoons) The Best of Khalil"দ্য নিউজ টুডে 
  6. "খলিলের কার্টুন : জনমনের প্রতিচ্ছবি"বিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম 
  7. "Cartoon speaks of city's water crisis, gridlock"দ্য ডেইলি স্টার 
  8. "cagle.com » Khalil Rahman's Cartoon Archive" 
  9. "The Daily Jugantor » খলিলের নির্বাচিত কার্টুন" 
  10. "খলিলের কার্টুনে চলমান বাংলাদেশ"দৈনিক ইনকিলাব। ২০১৫-০১-৩০ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। 
  11. "Khalil's cartoons : The reflection of times"Dhaka Courier। ২০১৫-০১-০৯ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। 
  12. Alam, Rabiul (৯ জানুয়ারি ২০১৫)। "Bangladesh politics in Khalil's cartoons"দি ইন্ডিপেন্ডেন্ট। Dhaka। ১০ জানুয়ারি ২০১৫ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। 
  13. "খলিলের নির্বাচিত কার্টুন"যায়যায়দিন 
  14. "খলিলের নির্বাচিত কার্টুন"বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম। ১৪ অক্টোবর ২০১৪। ১৫ অক্টোবর ২০১৪ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ১৭ জানুয়ারি ২০১৫ 

বহিঃসংযোগ[সম্পাদনা]