সালাউদ্দিন কাদের চৌধুরী

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
সালাউদ্দিন কাদের চৌধুরী
Salahuddin Quader Chowdhury.jpg
জন্ম (১৯৪৯-০৩-১৩)মার্চ ১৩, ১৯৪৯
রাউজান, চট্টগ্রাম
মৃত্যু নভেম্বর ২২, ২০১৫(২০১৫-১১-২২) (৬৬ বছর)
ঢাকা কেন্দ্রীয় কারাগার
মৃত্যুর কারণ ফাঁসিতে ঝুলিয়ে মৃত্যুদন্ড কার্যকর
বাসস্থান চট্টগ্রাম
জাতীয়তা বাংলাদেশী
জাতিসত্তা বাঙালি
নাগরিকত্ব  বাংলাদেশ
শিক্ষা প্রতিষ্ঠান নটরডেম কলেজ
পাঞ্জাব বিশ্ববিদ্যালয়
পেশা রাজনীতি
যে জন্য পরিচিত রাজনীতি, মানবতাবিরোধী অপরাধ
রাজনৈতিক দল বাংলাদেশ জাতীয়তাবাদী দল
ধর্ম ইসলাম
দাম্পত্য সঙ্গী ফারহাত কাদের চৌধুরী
সন্তান ফয়জুল কাদের চৌধুরী(ছেলে)
ফারজিন কাদের চৌধুরী(মেয়ে)
হুম্মাম কাদের চৌধুরী (ছেলে)
পিতা-মাতা ফজলুল কাদের চৌধুরী
সৈয়দা সেলিমা কাদের
আত্মীয় সাইফুদ্দিন কাদের চৌধুরী (ভাই)
গিয়াসউদ্দিন কাদের চৌধুরী (ভাই)
জামালউদ্দিন কাদের চৌধুরী (ভাই)

সালাউদ্দিন কাদের চৌধুরী ( ১৩ মার্চ ১৯৪৯ - ২২ নভেম্বর ২০১৫);[১][২] যিনি সাকা চৌধুরী নামেও পরিচিত; ছিলেন একজন বাংলাদেশী রাজনীতিবিদ এবং জাতীয় সংসদের চট্টগ্রাম-২ আসন থেকে ছয় বার নির্বাচিত সংসদ সদস্য। মৃত্যু পর্যন্ত তিনি বাংলাদেশ জাতীয়তাবাদী দলের স্থায়ী কমিটির সদস্য ছিলেন।[৩][৪][৫][৬] মুক্তিযুদ্ধের সময় মানবতাবিরোধী অপরাধের জন্য ২০১৫ সালের ২২ নভেম্বর বাংলাদেশের আন্তর্জাতিক অপরাধ ট্রাইব্যুনালের দণ্ডাদেশ অনুযায়ী তার ফাঁসি কার্যকর হয়।[৪][৫][৬] তাকে দোষী সাব্যস্ত করায় ট্রাইব্যুনালের বিচার সংক্রান্ত বিষয়ে বাংলাদেশের অভ্যন্তরীণ ও বৈদেশিক উৎস থেকে বিভিন্ন প্রশ্ন উত্থাপিত হয়েছিল।[৭] ২০১৩ সালের ১ অক্টোবর যুদ্ধের সময় নির্যাতন, হত্যা ও গণহত্যার জন্য আন্তর্জাতিক অপরাধ ট্রাইব্যুনাল কর্তৃক তাকে মৃত্যুদণ্ড প্রদান করা হয়।[৫][৮] উচ্চআদালত ২০১৫ সালের ১৮ নভেম্বর তার রায়ের পর্যালোচনার আবেদন প্রত্যাখ্যান করে। জেল কর্মকর্তাদের মতে, সালাউদ্দিন বাংলাদেশের রাষ্ট্রপতির কাছে কৃপাভিক্ষাপত্রের আবেদন জানায়, কিন্তু তার আবেদন প্রত্যাখ্যাত হয়েছিল।অবশ্য তার পরিবারের সদস্যদের মতে,মৃত্যুদণ্ড থেকে রেহাই পেতে তিনি রাষ্ট্রপতির কাছে কোনো আবেদন করেননি ।[৯]

প্রাথমিক জীবন[সম্পাদনা]

সালাউদ্দিন কাদের চৌধুরী চট্টগ্রামের রাউজানে ১৩ মার্চ, ১৯৪৯ সালে জন্মগ্রহন করেন। তার পিতার নাম ফজলুল কাদের চৌধুরী যিনি বাংলাদেশের স্বাধীনতার পূর্ববর্তী সময়ে পাকিস্তানের জাতীয় সংসদের একজন স্পিকার ছিলেন এবং কয়েক দফায় পাকিস্তানের ভারপ্রাপ্ত রাষ্ট্রপতির দায়িত্ব পালন করেন। তার দুই ভাই গিয়াসউদ্দিন কাদের চৌধুরী এবং সাইফুদ্দিন কাদের চৌধুরী।

সালাউদ্দিন কাদের চৌধুরীর স্ত্রী ফারহাত কাদের চৌধুরী। তার দুই ছেলে হুম্মাম কাদের চৌধুরী ও ফজলুল কাদের চৌধুরী এবং এক মেয়ে ফারজিন কাদের চৌধুরী।

শিক্ষাজীবন[সম্পাদনা]

সালাউদ্দিন কাদের চৌধুরীর প্রাথমিক শিক্ষা শুরু হয় পাকিস্থানের সাদিক পাবলিক স্কুলে। পরবর্তীতে সেখান থেকে ফিরিয়ে এনে চট্টগ্রামের সেন্ট প্লাসিড স্কুলে ভর্তি করানো হয়, সেখান থেকেই মাধ্যমিক পাশ করেন। এরপর ঢাকার নটরডেম কলেজ থেকে উচ্চ মাধ্যমিক পরীক্ষায় পাশ করেন। এরপর পাকিস্থানের পাঞ্জাব বিশ্ববিদ্যালয় থেকে রাষ্ট্রবিজ্ঞানে সম্মান ডিগ্রি অর্জন করেন।[১০]। যদিও আদালত যুদ্ধাপরাধের বিচার চলাকালীন তার সার্টিফিকেটকে ভূয়া বলে ঘোষণা করেন।

রাজনৈতিক জীবন[সম্পাদনা]

চৌধুরী বাংলাদেশ জাতীয় সংসদের সাংসদ ছিলেন।[১১] ২০০১ থেকে ২০০৬ সাল পর্যন্ত তিনি প্রধানমন্ত্রী খালেদা জিয়ার সংসদ সম্পর্কিত কমিটির উপদেষ্টা ছিলেন।[১২] সালাউদ্দিন কাদের চৌধুরী ১৯৭৯, ১৯৮৬, ১৯৮৮, ১৯৯১, ১৯৯৬, ২০০১[১৩]২০০৮ সালের নির্বাচনে সাত মেয়াদের সংসদ সদস্য নির্বাচিত হন।[১৪] ১৯৯৬, ২০০১ ও ২০০৮ সালে নির্বাচনী অঞ্চল রাউজান থেকে পূণঃনির্বাচিত হন।[১১]

মানবতাবিরোধী অপরাধ[সম্পাদনা]

২০১০ সালের ১৬ই ডিসেম্বর থেকে তিনি কারাগারে রয়েছেন। প্রাথমিকভাবে তাকে বিএনপির ডাকা হরতালে গাড়ি ও এর মালিককে পোড়ানোর মামলায় জিজ্ঞাসাবাদ করা হয়। পরবর্তিতে তাকে যুদ্ধাপরাধের মামলায় গ্রেফতার দেখানো হয়। ২০১২ সালের ৪ঠা এপ্রিল বাংলাদেশের আন্তর্জাতিক অপরাধ ট্রাইব্যুনাল সালাউদ্দিন কাদের চৌধুরীর বিরুদ্ধে ১৯৭১ সালে মানবতাবিরোধী অপরাধের ২৩টি অভিযোগ গঠন করে।[১৫][১৬][১৭]

তার বিরুদ্ধে আন্তর্জাতিক অপরাধ ট্রাইব্যুনাল কর্তৃক আনীত অভিযোগগুলোর মধ্যে কিছু হলঃ[৪][১৮]

  • ১৯৭১ সালের ৪-৫ই এপ্রিল সংখ্যাগরিষ্ঠ হিন্দু সম্প্রদায়ের ৭ জনকে অপহরণ ও এর মধ্যে ৬ জনকে হত্যা করেন।
  • ১৯৭১ সালের ১৩ই এপ্রিল রাউজানের মধ্য গহিরা হিন্দু পাড়ায় পাকিস্তান সেনাবাহিনীর সাথে গণহত্যা
  • ১৯৭১ সালের ১৩ই এপ্রিল কুন্দেশ্বরী ওষুধালয়ের মালিক নতুন চন্দ্র সিংহাকে হত্যা।
  • পাকিস্তান সেনাবাহিনীর সাথে মিলে ৩২ জনকে হত্যা, বাড়িতে আগুন দেওয়া ও ধর্ষণের অভিযোগ
  • ১৪ই এপ্রিল সতিশ চন্দ্র পালিত হত্যা, তার বাড়িতে আগুন ও পরিবারের সদস্যদের ধর্মান্তরে বাধ্য করা।
  • পাকিস্তান সেনাবাহিনীর সাথে মিলে বোয়ালখালির শাখাপুর হিন্দু অধ্যুষ্যিত অঞ্চলে হামলা ও ৭৬ জনকে হত্য।

দন্ড[সম্পাদনা]

১লা অক্টোবর ২০১৩ তারিখ, আন্তর্জাতিক অপরাধ ট্রাইব্যুনাল চৌধুরীকে ২৩টি মামলার মাঝে হত্যা, নির্যাতন, গণহত্যা ইত্যাদির মোট নয়টি মামলায় দোষী প্রমানিত হওয়ায় ফাঁসির আদেশ প্রদান করে।[১৯] তার রাজনৈতিক দল বিএনপি অভিযোগ করে যে, এই বিচার রাজনৈতিক উদ্দেশ্য প্রণোদিত।[২০] ট্রাইব্যুনালের রায়ের বিরুদ্ধে তার পক্ষ থেকে আপিল করা হলে আপিলের রায়ে ২০১৫ সালের ১৮ই নভেম্বর একটি অভিযোগ থেকে মুক্তি দেয়া হলেও অন্য অপরাধের জন্য ফাঁসির সাজা বহাল থাকে।[২১] ২১শে নভেম্বর সালাউদ্দিন কাদের চৌধুরীও অপর দন্ডপ্রাপ্ত যুদ্ধাপরাধী আলী আহসান মুহাম্মদ মুজাহিদ কারাকর্তৃপক্ষের মাধ্যমে রাষ্ট্রপতি আব্দুল হামিদের নিকট প্রাণভিক্ষার জন্য আবেদন করেন[২২] কিন্তু রাষ্ট্রপতি দুজনের আবেদনই নাকচ করে দেন।[২৩]

২২শে নভেম্বর ২০১৫ সালে ঢাকা কেন্দ্রীয় কারাগারে রাত ১২টা ৪৫ মিনিটে তাদের দু'জনকে একই সাথে ফাঁসিতে ঝুলিয়ে মৃত্যুদন্ড কার্যকর করা হয়।

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. "Two top Bangladesh war criminals hanged"দ্য হিন্দুু (ইংরেজি ভাষায়) (ঢাকা: দ্য হিন্দুু)। নভেম্বর ২২, ২০১৫। আইএসএসএন 0971-751X। সংগৃহীত নভেম্বর ২২, ২০১৫ 
  2. নিজস্ব প্রতিবেদক (নভেম্বর ২২, ২০১৫)। "সাকা-মুজাহিদের ফাঁসি কার্যকর"দৈনিক প্রথম আলো (ঢাকা: প্রথম আলো)। সংগৃহীত নভেম্বর ২২, ২০১৫ 
  3. Kailash Sarkar and Chaitanya Chandra Halder (ডিসেম্বর ১৭, ২০১০)। "SQ Chy remanded" [সাকা রিমান্ডে]দ্য ডেইলি স্টার (বাংলাদেশ) (ইংরেজি ভাষায়) (ঢাকা: দ্য ডেইলি স্টার)। সংগৃহীত নভেম্বর ২২, ২০১৫ 
  4. ৪.০ ৪.১ ৪.২ "Charges against SQ Chy"ঢাকা ট্রিবিউন (ইংরেজি ভাষায়)। ১ অক্টোবর ২০১৩। সংগৃহীত ১ অক্টোবর ২০১৩ 
  5. ৫.০ ৫.১ ৫.২ "Bangladesh MP Salahuddin Quader Chowdhury to hang for war crimes" (ইংরেজি ভাষায়)। BBC News। ১ অক্টোবর ২০১৩। সংগৃহীত ১ অক্টোবর ২০১৩ 
  6. ৬.০ ৬.১ Sarkar, Kailash (১৭ ডিসেম্বর ২০১০)। "SQ Chy remanded"The Daily Star (ইংরেজি ভাষায়)। সংগৃহীত ২০ এপ্রিল ২০১১ 
  7. "Bangladesh"The Economist (ইংরেজি ভাষায়)। 
  8. Bartrop, Paul R. (জুলাই ২০১২)। A Biographical Encyclopedia of Contemporary Genocide (ইংরেজি ভাষায়)। ABC-CLIO। পৃ: ৩৭৪। আইএসবিএন 978-0313386787 
  9. "Bangladesh president rejects mercy plea of 2 war criminals - Times of India"The Times of India (ইংরেজি ভাষায়)। সংগৃহীত ২০১৫-১১-২১ 
  10. "A career full of controversies - Dhaka Tribune"dhakatribune.com (ইংরেজি ভাষায়)। 
  11. ১১.০ ১১.১ "9th Parliament MP List" (ইংরেজি ভাষায়)। Jatiyo Sangshad। সংগৃহীত ২০ এপ্রিল ২০১১ 
  12. "Please spare his life, SQ Chy's family urges President" (ইংরেজি ভাষায়)। ৬ জুলাই ২০০৭। সংগৃহীত ২০ এপ্রিল ২০১১ 
  13. "8th Parliament MP List" (ইংরেজি ভাষায়)। সংগৃহীত ২০ এপ্রিল ২০১১ 
  14. "SQ Chy feared Rangunia debacle"bdnews24.com (ইংরেজি ভাষায়)। ৫ সেপ্টেম্বর ২০১১। সংগৃহীত ১৮ সেপ্টেম্বর ২০১১ 
  15. Mizan Rahman, "Opposition lawmaker indicted for war crimes", Gulf Times, ৫ এপ্রিল ২০১২
  16. "অপরাধ ২৩-হত্যা ধর্ষণ অপহরণ নির্যাতন ধর্মান্তর ॥ অভিযুক্ত সাকা", দৈনিক জনকণ্ঠ, ৫ এপ্রিল ২০১২
  17. "THE 23 CHARGES", The Daily Star, ৫ এপ্রিল ২০১২
  18. "The charges against Salauddin Quader"bdnews24.com (ইংরেজি ভাষায়)। ১ অক্টোবর ২০১৩। সংগৃহীত ১ অক্টোবর ২০১৩ 
  19. "Bangladesh MP Salahuddin Quader Chowdhury to hang for war crimes"BBC News (ইংরেজি ভাষায়)। 
  20. "Bangladesh sentences 7th opposition lawmaker to death"archive.is (ইংরেজি ভাষায়)। 
  21. ফাঁসিকাষ্ঠেই যেতে হবে। প্রথম আলো।
  22. "ক্ষমার আবেদন করেছেন সাকা-মুজাহিদ: আইনমন্ত্রী"bdnews24.com 
  23. "প্রাণভিক্ষা পাননি সাকা-মুজাহিদ"bdnews24.com 

টেমপ্লেট:১৯৭১ বাংলাদেশ গণহত্যা