বীরস্বামী পারমল

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
বীরস্বামী পারমল
ব্যক্তিগত তথ্য
পূর্ণ নামবীরস্বামী পারমল
জন্ম (1989-08-11) ১১ আগস্ট ১৯৮৯ (বয়স ৩০)
বেলভেদেরে, বারবাইস, গায়ানা
ব্যাটিংয়ের ধরনডানহাতি
বোলিংয়ের ধরনস্লো লেফট-আর্ম অর্থোডক্স
ভূমিকাবোলার
আন্তর্জাতিক তথ্য
জাতীয় পার্শ্ব
টেস্ট অভিষেক
(ক্যাপ ২৯৩)
১৩ নভেম্বর ২০১২ বনাম বাংলাদেশ
শেষ টেস্ট১ মে ২০১৫ বনাম ইংল্যান্ড
ওডিআই অভিষেক৫ ডিসেম্বর ২০১২ বনাম বাংলাদেশ
শেষ ওডিআই২৭ নভেম্বর ২০১৩ বনাম ভারত
ঘরোয়া দলের তথ্য
বছরদল
২০০৬/০৭-২০১৪/১৫গায়ানা
২০১৩-২০১৪গায়ানা আমাজন ওয়ারিয়র্স
খেলোয়াড়ী জীবনের পরিসংখ্যান
প্রতিযোগিতা টেস্ট ওডিআই এফসি এলএ
ম্যাচ সংখ্যা ৭৫ ৪৮
রানের সংখ্যা ৭৫ ১১ ১,৩১৩ ২৯০
ব্যাটিং গড় ১০.৭১ ৫.৫০ ১৩.৫৩ ১৬.১১
১০০/৫০ ০/০ ০/০ ০/৩ ০/০
সর্বোচ্চ রান ২০ ১০ ৮৬* ৩৯*
বল করেছে ১,০৩৬ ৩০৭ ১৬,৫৭৫ ২,৩৯৮
উইকেট ১৬ ৩১১ ৭০
বোলিং গড় ৩৬.৩১ ৩০.০০ ২২.২০ ২১.১০
ইনিংসে ৫ উইকেট ১৪
ম্যাচে ১০ উইকেট
সেরা বোলিং ৩/৩২ ৩/৪০ ৮/২৬ ৫/২৬
ক্যাচ/স্ট্যাম্পিং ২/০ ০/– ৩৮/– ১৭/–
উৎস: CricketArchive, espncricinfo, 28 May 2015

বীরস্বামী পারমল (জন্ম: ১১ আগস্ট, ১৯৮৯) গায়ানার বারবাইস এলাকায় জন্মগ্রহণকারী ওয়েস্ট ইন্ডিজের আন্তর্জাতিক ক্রিকেটারওয়েস্ট ইন্ডিজ ক্রিকেট দলের অন্যতম সদস্য তিনি। পাশাপাশি ওয়েস্ট ইন্ডিজের আঞ্চলিক ক্রিকেট প্রতিযোগিতায় গায়ানা দলের পক্ষে খেলছেন। দলে তিনি মূলতঃ বোলার হিসেবে দায়িত্ব পালন করে থাকেন।

প্রারম্ভিক জীবন[সম্পাদনা]

২০০২ সাল থেকে ক্লাব ক্রিকেটে আলবিওন কম্যুনিটি সেন্টার ক্রিকেট ক্লাবে খেলছেন।[১] ২০০৬-০৭ মৌসুমে প্রথম-শ্রেণীর চারদিনের আঞ্চলিক প্রতিযোগিতা হিসেবে ক্যারিব বিয়ার সিরিজে গায়ানার প্রতিনিধিত্ব করেন। প্রতিপক্ষ উইন্ডওয়ার্ড আইল্যান্ডসের বিপক্ষে অভিষিক্ত প্রথম-শ্রেণীর ক্রিকেটে চার উইকেট পান তিনি। এছাড়াও, কেএফসি কাপে জামাইকার বিপক্ষে পাঁচ-উইকেট পান। এর দুই বছর পর ২৩.৯৩ গড়ে ৩২ উইকেট নিয়ে সকলের নজর কাড়েন। এছাড়াও, ২০১১-১২ মৌসুমে ২২.০৫ গড়ে ৩৭ উইকেট পান। ২০১২ সালে সফরকারী ভারত এ দলের বিপক্ষে ওয়েস্ট ইন্ডিজ এ দলের অধিনায়কত্ব করেন।

খেলোয়াড়ী জীবন[সম্পাদনা]

২০০২ সাল থেকে প্রথম-শ্রেণীর ক্রিকেটে হাতেখড়ি হলেও ১০ বছর পর টেস্টে অংশগ্রহণের সুযোগ পান পারমল। ঘরোয়া ক্রিকেটে দূর্দান্ত ক্রীড়াশৈলী প্রদর্শনের ফলে বাংলাদেশ সফরে সুনীল নারাইনের সাথে দলের দ্বিতীয় স্পিনার হিসেবে দলে অন্তর্ভুক্তি ঘটে। ১৩ নভেম্বর, ২০১২ তারিখে ঢাকার শের-ই-বাংলা জাতীয় স্টেডিয়ামে বাংলাদেশের বিপক্ষে অনুষ্ঠিত ১ম টেস্টে তার অভিষেক ঘটে।[২] ঐ টেস্টে তিনি চার উইকেট তুলে নিয়ে ওয়েস্ট ইন্ডিজের ৭৭ রানের জয়ে ভূমিকা রাখেন। একই দলের বিপক্ষে ৫ ডিসেম্বর, ২০১২ তারিখে অনুষ্ঠিত ৩য় ওডিআইয়ে তার অভিষেক ঘটেছিল।

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. Ramzan, Avenash (১৯ অক্টোবর ২০১২)। "Permaul not surprised by WI selection"Guyana Times। সংগ্রহের তারিখ ১৪ নভেম্বর ২০১২ 
  2. AFP (১৩ নভেম্বর ২০১২)। "Powell, Chanderpaul put Bangladesh to sword"। Wisden India। ২৭ ডিসেম্বর ২০১৩ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ১৪ নভেম্বর ২০১২ 

আরও দেখুন[সম্পাদনা]

বহিঃসংযোগ[সম্পাদনা]