উসমান আফজাল

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
উসমান আফজাল
ব্যক্তিগত তথ্য
পূর্ণ নামউসমান আফজাল
জন্ম (1977-06-09) ৯ জুন ১৯৭৭ (বয়স ৪৪)
রাওয়ালপিন্ডি, পাঞ্জাব, পাকিস্তান
ডাকনামউজ, উজি, এ-স্টার, জাফ-জাফ, ট্রেভর
উচ্চতা৬ ফুট ০ ইঞ্চি (১.৮৩ মিটার)
ব্যাটিংয়ের ধরনবামহাতি
বোলিংয়ের ধরনস্লো লেফট আর্ম অর্থোডক্স
ভূমিকাঅল-রাউন্ডার
সম্পর্ককামরান আফজাল (ভ্রাতা),
আকিব আফজাল (ভ্রাতা)
আন্তর্জাতিক তথ্য
জাতীয় পার্শ্ব
টেস্ট অভিষেক
(ক্যাপ ৬০৫)
৫ জুলাই ২০০১ বনাম অস্ট্রেলিয়া
শেষ টেস্ট২ আগস্ট ২০০১ বনাম অস্ট্রেলিয়া
ঘরোয়া দলের তথ্য
বছরদল
১৯৯৫ - ২০০৩নটিংহ্যামশায়ার
২০০৪ - ২০০৭নর্দাম্পটনশায়ার
২০০৮ - ২০১০সারে
খেলোয়াড়ী জীবনের পরিসংখ্যান
প্রতিযোগিতা টেস্ট এফসি এলএ টি২০
ম্যাচ সংখ্যা ২৩৫ ১৯০ ৫২
রানের সংখ্যা ৮৩ ১৪,০৫৫ ৫,৪৯১ ৯৪২
ব্যাটিং গড় ১৬.৬০ ৩৯.১৫ ৩৫.৮৮ ২২.৪২
১০০/৫০ ০/১ ৩২/৭৪ ৬/৩৪ ০/৪
সর্বোচ্চ রান ৫৪ ২০৪* ১৩২ ৯৮*
বল করেছে ৫৪ ৯,০৮৯ ১,৬০২ ১৯৫
উইকেট ৯৮ ৫৯
বোলিং গড় ৪৯.০০ ৫১.৮১ ২৬.৫৫ ৩২.৭৫
ইনিংসে ৫ উইকেট
ম্যাচে ১০ উইকেট - -
সেরা বোলিং ১/৪৯ ৪/১০১ ৪/৪৯ ২/১৫
ক্যাচ/স্ট্যাম্পিং ০/– ১০৪/– ৫৩/– ৬/–
উৎস: ইএসপিএনক্রিকইনফো.কম, ২২ ফেব্রুয়ারি ২০২০

উসমান আফজাল (জন্ম: ৯ জুন, ১৯৭৭) রাওয়ালপিন্ডিতে জন্মগ্রহণকারী পাকিস্তানি বংশোদ্ভূত সাবেক ইংরেজ আন্তর্জাতিক ক্রিকেটার। ইংল্যান্ড ক্রিকেট দলের অন্যতম সদস্য ছিলেন তিনি। ২০০১ সালে সংক্ষিপ্ত সময়ের জন্যে ইংল্যান্ডের পক্ষে আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে অংশগ্রহণ করেছেন।

ঘরোয়া প্রথম-শ্রেণীর ইংরেজ কাউন্টি ক্রিকেটে নর্দাম্পটনশায়ার, নটিংহ্যামশায়ার ও সারে এবং বাংলাদেশী ক্রিকেটে কলাবাগান ক্রীড়া চক্র দলের প্রতিনিধিত্ব করেন। দলে তিনি মূলতঃ অল-রাউন্ডার হিসেবে খেলতেন। বামহাতে ব্যাটিংয়ের পাশাপাশি স্লো লেফট আর্ম অর্থোডক্স বোলিংয়ে পারদর্শী ছিলেন ‘উজ, উজি’ ডাকনামে পরিচিত উসমান আফজাল।

প্রথম-শ্রেণীর ক্রিকেট[সম্পাদনা]

ম্যানভার্স পিয়েরেপয়েন্ট স্কুলে অধ্যয়ন শেষে সাউথ নটস কলেজে পড়াশুনো করেছেন। পাকিস্তানের সাথে তার জোড়ালো সম্পর্ক রয়েছে। অক্টোবর, ২০০০ সালে নটিংহামশায়ারে বসবাসকারী তরুণদের উদ্যোগে লাহোর গমন করেন। একমাত্র ইংরেজ টেস্ট ক্রিকেটার হিসেবে স্যান্ডফোর্ড শ্যুলজ পারিবারিক নামে এক শতাব্দীরও অধিক সময় ধরে ইংরেজি জেড অক্ষর ধারণ করে রাখার পর ২০০১ সালে উসমান আফজাল ঐ অক্ষরের সাথে স্বীয় নামকে যুক্ত করেন।[১]

নটিংহ্যামশায়ারের পক্ষে প্রথম-শ্রেণীর খেলোয়াড়ী জীবন শুরু করেন। ১৯৯৬ সালে এনবিসি ডেনিস কম্পটন পুরস্কার লাভ করেন। ২০০৩ সালে ঐ কাউন্টি দল ত্যাগ করে নর্দাম্পটনশায়ারে চলে যান। ২০০৭ সালে নর্দাম্পটনশায়ার ত্যাগ করে তিন বছরের চুক্তিতে সারে দলের সাথে যুক্ত হন।[২]

১৯৯৫ সাল থেকে ২০১০ সাল পর্যন্ত উসমান আফজালের প্রথম-শ্রেণীর খেলোয়াড়ী জীবন চলমান ছিল। পেস বোলিংয়ের বিপক্ষে খেলতে স্বাচ্ছন্দ্যবোধ করতেন। সমান্তরাল ধাঁচের ড্রাইভগুলো বেশ দৃষ্টিনন্দন ছিল। অল-রাউন্ডার হবার স্বপ্নজাল বুনতেন। তবে, অধিকাংশক্ষেত্রেই থিতু হয়ে পড়া জুটি ভাঙ্গার ক্ষেত্রেই তাকে বোলিং করতে আমন্ত্রণ জানানো হতো। জুন, ২০০০ সালে ওরচেস্টারশায়ারের বিপক্ষে দর্শনীয় ১৫১ রানের ইনিংস খেলে গ্লেন ম্যাকগ্রা’র ন্যায় বিশ্বমানের ক্রিকেটারদেরকে বিস্ময়াভিভূত করেন।

নর্দান্টসের যাবার পর চ্যাম্পিয়নশীপ ও একদিনের ক্রিকেটে খাঁটিমানের ব্যাটসম্যানে রূপান্তরিত হন। ২০০৫ ও ২০০৬ সালে সহস্র রানের মাইলফলক স্পর্শ করেন। লন্ডনে অবস্থানকালে শুরু থেকেই ধারাবাহিকভাবে সফলতার স্বাক্ষর রাখেন। তবে, তিনি ক্রিস অ্যাডামসের দাপটের সাথে তাল মেলাতে পারেননি। পিছনের দিকে ব্যাটিংয়ে করতে হয় তাকে। অতঃপর, ২০১০ সালে খেলার জগৎ থেকে অবসর গ্রহণ করতে বাধ্য হন।

আন্তর্জাতিক ক্রিকেট[সম্পাদনা]

সমগ্র খেলোয়াড়ী জীবনে তিনটিমাত্র টেস্টে অংশগ্রহণ করেছেন উসমান আফজাল। ৫ জুলাই, ২০০১ তারিখে বার্মিংহামে সফরকারী অস্ট্রেলিয়া দলের বিপক্ষে টেস্ট ক্রিকেটে অভিষেক ঘটে তার। ২৩ আগস্ট, ২০০১ তারিখে ওভালে একই দলের বিপক্ষে সর্বশেষ টেস্টে অংশ নেন তিনি।

ইংল্যান্ড দলে ব্যাটসম্যানের সঙ্কটে দেখা দিলে অস্ট্রেলীয়দের বিপক্ষে অ্যাশেজ সিরিজের প্রথম টেস্ট খেলার জন্যে তাকে দলে রাখা হয়। দুই ইনিংসেই তিনি ব্যর্থ হন। তাসত্ত্বেও হেডিংলি টেস্টে তাকে পুনরায় আমন্ত্রণ জানানো হয়। ওভালে দূর্দান্ত অর্ধ-শতরানের ইনিংস খেলেন। এরফলে ভারত গমনার্থে তাকে ইংল্যান্ড দলে অন্তর্ভুক্ত করা হয়। এ সফরে পানীয় বহনে তাকে দেখা যায়। তবে, তার ওজন বৃদ্ধির কারণে কোচ ডানকান ফ্লেচারের কাছ থেকে কোনরূপ ছাড় পাননি তিনি।

অবসর[সম্পাদনা]

ক্রিকেট খেলা থেকে অবসর গ্রহণের পর তরুণ ক্রিকেটারেদের উচ্চাকাঙ্ক্ষী করে তুলতে ব্যক্তি উদ্যোগে জাতীয় ক্রিকেট একাডেমি প্রতিষ্ঠা করেন। ২০১৩ থেকে ২০১৫ সময়কালে ট্রেন্ট ব্রিজের বিপরীত পার্শ্বে নিজস্ব ভারতীয় রেস্তোরাঁ চালু করেন।[৩][৪]

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

আরও দেখুন[সম্পাদনা]

বহিঃসংযোগ[সম্পাদনা]