ভিনিসিউস জুনিওর

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
ভিনিসিউস জুনিওর
Vinicius Junior 2018 1 (cropped).jpg
২০১৮ সালে ফ্লেমিংগোর হয়ে ভিনিসিউস
ব্যক্তিগত তথ্য
পূর্ণ নাম ভিনিসিউস জোসে পাইশাও
ডি অলিভিয়েরা জুনিওর
জন্ম (2000-07-12) ১২ জুলাই ২০০০ (বয়স ১৯)
জন্ম স্থান সাও গোনচালো, ব্রাজিল
উচ্চতা ১.৭৭ মিটার (৫ ফুট   ইঞ্চি)
মাঠে অবস্থান ফরওয়ার্ড
ক্লাবের তথ্য
বর্তমান ক্লাব রিয়াল মাদ্রিদ
যুব পর্যায়ের খেলোয়াড়ী জীবন
২০০৫–২০১৭ ফ্লেমিংগো
জ্যেষ্ঠ পর্যায়ের খেলোয়াড়ী জীবন*
বছর দল উপস্থিতি (গোল)
২০১৭–২০১৮ ফ্লেমিংগো ৩৭ (৭)
২০১৮– রিয়াল মাদ্রিদ ১১ (২)
২০১৮ রিয়াল মাদ্রিদ বি (৪)
জাতীয় দল
২০১৫–২০১৬ ব্রাজিল অনূর্ধ্ব-১৬ ১০ (৭)
২০১৬–২০১৭ ব্রাজিল অনূর্ধ্ব-১৭ ১৯ (১৭)
২০১৮– ব্রাজিল অনূর্ধ্ব-২০ (০)
  • পেশাদারী ক্লাবের উপস্থিতি ও গোলসংখ্যা শুধুমাত্র ঘরোয়া লিগের জন্য গণনা করা হয়েছে এবং ২৬ আগস্ট ২০১৮ তারিখ অনুযায়ী সঠিক।

† উপস্থিতি(গোল সংখ্যা)।

‡ জাতীয় দলের হয়ে খেলার সংখ্যা এবং গোল ১৩ জুন ২০১৮ তারিখ অনুযায়ী সঠিক।

ভিনিসিউস জোসে পাইশাও ডি অলিভিয়েরা জুনিওর (জন্ম: ১২ জুলাই ২০০০), সর্বাধিক ভিনিসিউস জুনিওর অথবা ভিনিসিউস জেআর হিসেবে পরিচিত, হলেন একজন ব্রাজিলিয়ান পেশাদার ফুটবলার যিনি একজন ফরওয়ার্ড হিসেবে জনপ্রিয় স্পেনীয় ফুটবল ক্লাব রিয়াল মাদ্রিদ-এর হয়ে খেলে থাকেন।

২০১৭ সালের ২৩শে মে, মাত্র ১৬ বছর বয়সে, ভিনিসিউসকে তার সাবেক ক্লাব ফ্লেমিংগো দ্বারা বিশ্ববিখ্যাত জনপ্রিয় ফুটবল ক্লাব রিয়াল মাদ্রিদ-এর নিকট বিক্রয় করে দেয়, যা তার ১৮তম জন্মদিনের পরবর্তী কালে কার্যকর হয়।[১] তাকে মূলত ২০১৮ সালের জুলাই মাসে ব্রাজিলে ধারে খেলার ফিরিয়ে নেবার পরিকল্পনা ছিলো।[১]

২০১৭ সালের জুন মাসে, জনপ্রিয় ব্রিটিশ দৈনিক পত্রিকা দ্য টেলিগ্রাফ-এ বিশ্বের সেরা অনুর্ধ-২১ বয়সী খেলোয়াড়দের নিয়ে প্রকাশিত একটি তালিকায় তার ৩৯তম নম্বরে উঠে আসে। ঐ সময়কালে তালিকায় দক্ষিণ আমেরিকা থেকে উঠে আসা তিনিই একমাত্র খেলোয়াড় যার নাম উক্ত তালিকাটিতে স্থান পেয়েছিল।[২]

ক্লাব কর্মজীবন[সম্পাদনা]

প্রাথমিক কর্মজীবন[সম্পাদনা]

ভিনিসউস জুনিওরের খেলোয়াড়ী জীবন শুরু হয় ২০০৬ সালে, যখন তার বাবা ব্রাজিলের অন্যতম ব্যাস্ততম নগরী রিও ডি জেনেরিও-এর অন্যতম পৌরসভা সাও গঞ্চালো-এর উপকন্ঠে মুতুয়া নামক স্থানে যেখানে তারা বসবাস করতো, সেখানে অবস্থিত ব্রাজিলিয়ান জনপ্রিয় ফুটবল ক্লাব ফ্লেমিংগো-এর একজন শাখা কর্মকর্তার নিয়ে যান।

গরীব পরিবারের সন্তান হওয়ায়, ভিনিসিউস তার চাচাদ্বয়ের একজনের সাথে "আবলিচাও" নামক স্থানে অবস্থিত "নিনহো ড্যু উরুবু" নামক ফ্লেমিংগোর একটি প্রশিক্ষন মাঠের নিকটবর্তীতে থাকার জন্য চলে আসেন।[৩]

২০০৭ সালে, ব্রাজিলের "সাও গঞ্চালো" পৌরসভায় অবস্থিত ফ্লেমিংগোর একাডেমীতে তার প্রশিক্ষনের পাশাপাশি তিনি, রিও ডি জেনিরোর আরেক পৌরসভা "নিতেরোই" এর জনপ্রিয় ক্লাব কান্তো দো রিও-এ ফুটসল-এর উপর প্রশিক্ষন নিতে শুরু করেন। সেখানে তিনি ২০১০ সালের আগ পযন্ত ছিলেন।[৩]

২০০৯ সালে যখন ভিনিসিউসের বয়স ছিল মাত্র ৯ বছর, তখন তার পিতা-মাতা তাকে ফ্লেমিংগোর হয়ে ফুটসলের চেষ্টাভিত্তিক একটি প্রতিযোগিতায় নিয়ে যান। ক্লাবটি তার মধ্যে সম্ভাবনা দেখতে পায় এবং তাকে আরো বছর বয়স পূর্ণ হবার আসতে বলে। তিনি ফুটসলে আর না ফেরাটা বেছে নে, তিনি ফ্লেমিংগো ফুটবল দলের জন্য পরিক্ষা দেন এবং পাশ করেন।[৩]

রিয়াল মাদ্রিদ[সম্পাদনা]

২০১৭ সালের ২৩শে মে, স্পেনীয় ক্লাব রিয়াল মাদ্রিদ ভিনিসিউসকে তাদের দলে ভেড়ানোর জন্য একটি চুক্তিতে আবদ্ধ হয়, যেটি ২০১৮ সালের ১২ই জুলাই তার ১৮তম জন্মদিনের পর কার্যকর হয় (যেহেতু আন্তর্জাতিকভাবে এক ক্লাব থেকে অন্য ক্লাবে যেতে হলে সর্বনিম্ন বয়স ১৮ বছর হতে হয়)।[১] তিনি প্রকাশিত তথ্য অনুযায়ী ৪৬ মিলিয়ন ইউরোতে রিয়ালে যোগ দেন, যেটি তখনকার সময়ে ব্রাজিলীয় ফুটবল ইতিহাসে নেইমারে পর দ্বিতীয় সর্বোচ্চ দামে বিক্রি হওয়া কোন খেলোয়াড়, এক ক্লাব থেকে অন্য ক্লাবে যোগদানের জন্য সবচেয়ে বেশি পরিমানের অর্থ গ্রহণকারী ব্রাজিলীয় ক্লাব (নেইমারকে কিনতে বার্সেলোনা ৮৬ মিলিয়ন ইউরো খরচ করেছিলো কিন্তু সান্তোস শুধু ১৭ মিলিয়ন পেয়েছিলো), এবং ১৯ বছরের কম বয়সী ফুটবলারের জন্য একটি ক্লাব কর্তৃক প্রদত্ত এখন পযন্ত সর্বোচ্চ পরিমাণ অর্থ প্রদান করে।[৪][৫]

২০১৮ সালের ২০শে জুলাই, রিয়াল মদ্রিদ ভিনিসিউসকে আনুষ্ঠানিকভাবে ক্লাবটির একজন খেলোয়াড় হিসেবে উপস্থাপন করে।[৬]

খেলোয়াড়ী জীবনের পরিসংখ্যান[সম্পাদনা]

ক্লাব[সম্পাদনা]

১৩ জুন ২০১৮ পর্যন্ত হালনাগাদকৃত।
ক্লাব সিজন লিগ কাপ প্রাদেশিক অন্যান্ন সর্বমোট
বিভাগ উপস্থিতি গোল উপস্থিতি গোল উপস্থিতি গোল উপস্থিতি গোল উপস্থিতি গোল
ফ্লেমিংগো ২০১৭ সিরি এ ২৫ [ক] 1 1[খ] ৩৭
২০১৮ ১২ [গ] ১৩[ঘ] ৩২ ১০
সর্বমোট ৩৭ ১২ ১৪ ৬৯ ১৪

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. "Official Announcement: Vinicius Junior" (সংবাদ বিজ্ঞপ্তি)। Real Madrid C.F.। ২৩ মে ২০১৭। সংগ্রহের তারিখ ৩ ডিসেম্বর ২০১৭ 
  2. "Jornal põe Jesus, Gabigol e Vinicius Jr. em lista de melhores sub-21 do mundo"Globo Esporte (Portuguese ভাষায়)। ২০ জুন ২০১৭। সংগ্রহের তারিখ ৭ জুন ২০১৮ 
  3. "Flamengo dá aumento de salário e eleva multa de Vinícius Júnior para 45 mi de euros"Globo Esporte (Portuguese ভাষায়)। ৪ এপ্রিল ২০১৭। সংগ্রহের তারিখ ৭ জুন ২০১৮ 
  4. sport, Guardian (২০১৭-০৫-২৩)। "Real Madrid sign 16-year-old Vinícius Júnior from Flamengo for £39.6m"the Guardian (ইংরেজি ভাষায়)। সংগ্রহের তারিখ ২০১৮-০৭-২০ 
  5. "Real Madrid sign Vinicius Junior from Flamengo for reported £38m fee"Sky Sports (ইংরেজি ভাষায়)। সংগ্রহের তারিখ ২০১৮-০৭-২০ 
  6. "Vinicius Jr. presentation at the Santiago Bernabéu"Real Madrid C.F.। ২০ জুলাই ২০১৮। 

বহিঃসংযোগ[সম্পাদনা]