বাহারে শরিয়ত

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
বাহারে শরীয়ত
লেখকআমজাদ আলী আজমি
ভাষাউর্দু
প্রকাশিত১৯৩৯


Basmala.svg
নিম্নোক্ত সিরিজের অংশ
বেরলভী আন্দোলন
DargahAlahazrat.jpg
ইমাম আহমদ রেজা খানের মাজার
প্রতিষ্ঠাতা ও কেন্দ্রীয় ব্যক্তিত্ব

আহমদ রেজা খান বেরলভী
পীর জামাত আলি শাহ
হামিদ রেজা খান
মুস্তাফা রেজা খান কাদেরী
মাওলানা আবদুল হামিদ কাদেরী বদায়ূনী
মুহাম্মদ করম শাহ আল-আজহারি
মুহাম্মদ আবদুল গফুর হাজারভি

ইতিহাস/আন্দোলন

নিখিল ভারত সুন্নি সম্মেলন
তেহরিক-ই-খতমে নবুয়ত
শহীদ গঞ্জ মসজিদ
শুদ্ধি বিরোধী আন্দোলন
শাহ বানু আন্দোলন

উল্লেখযোগ্য আলেম

অতীত
খাজা কমরউদ্দিন সিয়ালভি
শাহ আহমদ নুরানি
আবদুল সাত্তার খান নিয়াজি
আরশাদুল কাদরি
শামসুল হাসান শামস বেরলভি
সরফরাজ আহমেদ নাইমি
সাহেবজাদা হাজি মুহাম্মদ ফজল করিম
নুরুল ইসলাম ফারুকী
আখতার রেজা খান

বর্তমান
কাওকাব নুরানি উকাড়বী
আশরাফ আসিফ জালালি
কামারুজ্জামান আজমি
আমিন মিয়া কাদরি
শেখ আবু বকর আহমেদ
সৈয়দ শুজাত আলি কাদরি
মুহাম্মদ আরশাদ মিসবাহি
হামিদ সাইদ কাজমি
ইয়াসিন আখতার মিসবাহি
মুকাররম আহমেদ
মুহাম্মদ সাইদ নুরি

প্রতিষ্ঠান

ভারত জামিয়াতুর রেজা বেরেলি
মানজার-এ-ইসলাম বেরেলি
আল জামিয়াতুল আশরাফিয়া আজমগড়
আল জামিয়াতুল ইসলামিয়া মাও
জামিয়াতুল মদিনা বৈশ্বিক
জামিয়া নিজামিয়া হায়দ্রাবাদ,

পাকিস্তান জামিয়া নাইমিয়া লাহোর
জামিয়া আমজাদিয়া রিজভিয়া করাচি
জামিয়া নিজামিয়া গাউসিয়া ওয়াজিরাবাদ,

'যুক্তরাজ্য জামিয়া আল-কারাম
আল-মুস্তাফা ইসলামিক কালচারাল সেন্টার আয়ারল্যান্ড

সাহিত্য

কানজুল ঈমান, ফতোয়া-ই-রেজভিয়া
বাহারে শরিয়ত, হুসামুল হারামাইন
মানাকিব-আল-জালিলা

সংগঠন

ওয়ার্ল্ড ইসলামিক মিশন
জামিয়াত উলেমা-ই-পাকিস্তান
জামাত আহলে সুন্নত
সুন্নি তেহরিক
সুন্নি ইত্তেহাদ কাউন্সিল
মজলিস-ই-তাহাফফুজ-ই-খতমে নবুয়ত
তানজিম উল মাদারিস
রেজা একাডেমি
দরগাহ-এ-আলা হযরত

বাহার-এ-শরীয়ত (১৯৩৯) একটি ইসলামী ফিক্বহ (শাস্ত্র) এর বিশ্বকোষ, হানাফী মাযহাব অনুসারে, ২০ খন্ডে বিস্তৃত। এটার ১৭ খন্ড ইমাম আহমদ রেজা খানের একজন শিষ্য মুফতি আমজাদ আলী আজমি কর্তৃক লিখিত।[১] সর্বশেষ ৩ খন্ড তাঁর মৃত্যুর পর তাঁর শিষ্যদের দ্বারা সংকলিত হয়েছে। বইটি সাধারণ উর্দুতে লিখিত। সাধারণ লোক, আলেমদের এবং গবেষক পণ্ডিতরা সবাই এটির ১১৬২ টি বিষয়ের সাথে ইসলামী শরিয়ার একটি সম্পূর্ণ বই খুঁজে পেয়েছেন।[২][৩]

এটি মূলত মহিলাদের এবং শিশুদের জন্য লেখা ছিল, কিন্তু এখন ইসলামী শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে পড়াশোনা করা হয়। বিচারপতিও বইটিতে দেওয়া সিদ্ধান্তের উপর নির্ভর করেন। এই বইয়ের প্রথম খন্ড মূলত ইসলামের মৌলিক নীতিগুলিতে মনোনিবেশ করে। নামাজ, আকীদা, তাহারাত, রোজা, যাকাত ও হজ্জের জন্য পৃথক অংশ রয়েছে। দ্বিতীয় অংশে তালাক (তালাক) ও খুলা, (পণ্য কেনার ও বিক্রয়ের সাথে জড়িত বাণিজ্য বিষয়) এবং কুফরী বাক্য ইত্যাদি বিষয় অন্তর্ভুক্ত রয়েছে। ১৪ থেকে ২০ টি অংশ তৃতীয় খন্ডে সংকলিত হয়, যার মধ্যে রয়েছে উত্তরাধিকার, কাসাস, দিযাত ইত্যাদি বিষয়গুলি। একজন ব্যক্তির সমগ্র জীবনকে অন্তর্ভুক্ত করে এমন বিষয়গুলি লেখক দ্বারা আলোচনা করা হয়েছে। ২০১০ সালে, বাহার-এ-শরিয়তের ১০০ বছরের উদযাপন লেখক পুত্র দ্বারা পালন করা হয়। বইটি ভারত ও পাকিস্তান জুড়ে অনেক প্রকাশক দ্বারা প্রকাশিত হয়েছে।[৪][৫]

আরো দেখুন[সম্পাদনা]

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. +Umer Sarwar। "Bahar e Shariat Book by Amjad Ali Aazmi"Download Hub 
  2. Moulana Mohammad Iliyas Attar Qadri। Method of Salah। TANVEER AHMED। পৃষ্ঠা 123–। GGKEY:41U7ZHH6L4N। 
  3. Rahman, Tariq। "Language, Religion and Politics"revues.org 
  4. "Bahar-e-Shariat - Talaaq (Vol 8)"nmu.org.ua [স্থায়ীভাবে অকার্যকর সংযোগ]
  5. http://www.bookhut.net/bahar-e-shariat-urdu-pdf-complete/

বহিসংযোগ[সম্পাদনা]