নিক কুক

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
নিক কুক
Nick Cook.jpg
ব্যক্তিগত তথ্য
পূর্ণ নামনিকোলাস গ্রান্ট বিলসন কুক
জন্ম (1956-06-17) ১৭ জুন ১৯৫৬ (বয়স ৬৩)
লিচেস্টার, ইংল্যান্ড
ডাকনামবিস্ট, র‍্যাগিড
উচ্চতা৬ ফুট ০ ইঞ্চি (১.৮৩ মিটার)
ব্যাটিংয়ের ধরনডানহাতি
বোলিংয়ের ধরনস্লো লেফট-আর্ম অর্থোডক্স
ভূমিকাবোলার, আম্পায়ার
আন্তর্জাতিক তথ্য
জাতীয় পার্শ্ব
টেস্ট অভিষেক
(ক্যাপ ৫০১)
১১ আগস্ট ১৯৮৩ বনাম নিউজিল্যান্ড
শেষ টেস্ট২৪ আগস্ট ১৯৮৯ বনাম অস্ট্রেলিয়া
ওডিআই অভিষেক
(ক্যাপ ৭৩)
২৬ মার্চ ১৯৮৪ বনাম পাকিস্তান
শেষ ওডিআই২২ অক্টোবর ১৯৮৯ বনাম পাকিস্তান
আম্পায়ারিং তথ্য
খেলোয়াড়ী জীবনের পরিসংখ্যান
প্রতিযোগিতা টেস্ট ওডিআই এফসি এলএ
ম্যাচ সংখ্যা ১৫ ৩৫৬ ২২৩
রানের সংখ্যা ১৭৯ ৩,১৩৮ ৪৯১
ব্যাটিং গড় ৮.৫২ ১১.৬৬ ৯.২৬
১০০/৫০ ০/০ –/– ০/৪ ০/০
সর্বোচ্চ রান ৩১ ৭৫ ২৩
বল করেছে ৪,১৭৪ ১৪৪ ৬৪,৪৬৩ ১০,০৭৭
উইকেট ৫২ ৮৭৯ ২০০
বোলিং গড় ৩২.৪৮ ১৯.০০ ২৯.০১ ৩৪.০৬
ইনিংসে ৫ উইকেট ৩১
ম্যাচে ১০ উইকেট
সেরা বোলিং ৬/৬৫ ২/১৮ ৭/৩৪ ৪/২২
ক্যাচ/স্ট্যাম্পিং ৫/– ২/– ১৯৭/– ৭৪/–
উৎস: ইএসপিএনক্রিকইনফো.কম, ১৫ অক্টোবর ২০১৯

নিকোলাস গ্রান্ট বিলসন নিক কুক (ইংরেজি: Nick Cook; জন্ম: ১৭ জুন, ১৯৫৬) লিচেস্টার এলাকায় জন্মগ্রহণকারী প্রথিতযশা ও সাবেক ইংরেজ আন্তর্জাতিক ক্রিকেটার ও আম্পায়ার। বর্তমানে তিনি ইসিবি কর্তৃক পেশাদারী পর্যায়ে আম্পায়ারের দায়িত্ব পালন করছেন। ইংল্যান্ড ক্রিকেট দলের অন্যতম সদস্য ছিলেন তিনি। ১৯৮৩ থেকে ১৯৮৯ সময়কালে ইংল্যান্ডের পক্ষে আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে অংশগ্রহণ করেছেন।[১]

ঘরোয়া প্রথম-শ্রেণীর ইংরেজ কাউন্টি ক্রিকেটে নর্দাম্পটনশায়ারলিচেস্টারশায়ার দলের প্রতিনিধিত্ব করেন। দলে তিনি মূলতঃ স্লো লেফট-আর্ম অর্থোডক্স বোলার হিসেবে খেলতেন। এছাড়াও, ডানহাতে নিচেরসারিতে কার্যকরী ব্যাটিংশৈলী উপস্থাপন করেছেন ‘বিস্ট’ ডাকনামে পরিচিত নিক কুক

প্রথম-শ্রেণীর ক্রিকেট[সম্পাদনা]

১৯৭৮ সাল থেকে ১৯৯৪ সাল পর্যন্ত নিক কুকের প্রথম-শ্রেণীর খেলোয়াড়ী জীবন চলমান ছিল। আধুনিককালের দুর্লভ ইংরেজ ফিঙ্গার স্পিনার হিসেবে আবির্ভূত হয়েছিলেন। ঘরোয়া পর্যায়ের ক্রিকেটে লিচেস্টারশায়ার দলের পক্ষে খেলেছেন। এরপর তিনি নর্দাম্পটনশায়ারের সাথে চুক্তিবদ্ধ হন।

স্লো লেফট আর্ম অর্থোডক্স স্পিন বোলার ও নিচেরসারিতে ডানহাতে ব্যাটিংকারী নিক কুক ১৯৭৮ থেকে ১৯৯৪ সাল পর্যন্ত প্রথম-শ্রেণীর ক্রিকেট ও লিস্ট এ ক্রিকেটে অংশ নিয়েছেন। লাটারওয়ার্থ গ্রামার স্কুলে অধ্যয়ন করেন।

আন্তর্জাতিক ক্রিকেট[সম্পাদনা]

সমগ্র খেলোয়াড়ী জীবনে পনেরোটি টেস্ট ও তিনটি একদিনের আন্তর্জাতিকে অংশগ্রহণ করেছেন। ১১ আগস্ট, ১৯৮৩ তারিখে লর্ডসে সফরকারী নিউজিল্যান্ড দলের বিপক্ষে টেস্ট ক্রিকেটে অভিষেক ঘটে তার। ২৪ আগস্ট, ১৯৮৯ তারিখে ওভালে অস্ট্রেলিয়া দলের বিপক্ষে সর্বশেষ টেস্টে অংশ নেন তিনি।

ফিল এডমন্ডস গাড়ী থেকে নামার সময়ে পিঠে আঘাত পান ও আর স্বীয় ক্রীড়াশৈলী মেলে ধরতে পারেননি। ফলশ্রুতিতে এ শূন্যতা পূরণে নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে অঙ্গনে অভিষেক ঘটে নিক কুকের।

প্রথম চার টেস্টে ৩২ উইকেট পান। তন্মধ্যে চারবার ইনিংসে পাঁচ-উইকেট পেয়েছিলেন তিনি। এছাড়াও, টেস্ট ক্রিকেট অভিষেকে পাঁচ-উইকেট পেয়েছিলেন তিনি।[২] তন্মধ্যে, ১৯৮৩-৮৪ মৌসুমে করাচীতে স্বাগতিক পাকিস্তানের বিপক্ষে দুইবার পাঁচ-উইকেট লাভসহ ৮৩ রান খরচায় ১১ উইকেট নিয়ে খেলায় সেরা বোলিং পরিসংখ্যান দাঁড় করান।[৩] কিন্তু ঐ চার টেস্টে ১৭ গড়ে ৩২ উইকেট লাভের পর নিজেকে হারিয়ে ফেলেন। তবে, পরবর্তী এগারো টেস্টে ৫৬.৭৫ গড়ে মাত্র ২০ উইকেট সংগ্রহ করতে পেরেছিলেন। ফলশ্রুতিতে, দলের বাইরে তাকে রাখা হয়। সর্বমোট ৫২ উইকেট সংগ্রহের জন্যে তাকে ৩২.৪৮ গড়ে রান খরচ করতে হয়েছিল। অন্যদিকে, তুলনান্তে জন এম্বুরির অংশগ্রহণকৃত ৬৪ টেস্টে ছয়বার পাঁচ-উইকেট পেয়েছিলেন।

১৯৮৯ সালে ওল্ড ট্রাফোর্ড তার বলে সুইপ মেরে ডেভিড বুন জয়সূচক রান তুলে অ্যাশেজ করায়ত্ত করেন।

অবসর[সম্পাদনা]

ক্রিকেট খেলা থেকে অবসর গ্রহণের পর আম্পায়ারের দায়িত্ব পালনে অগ্রসর হন। নভেম্বর, ২০০৮ সালে ইসিবি কর্তৃক ২০০৯ সালের পূর্ণাঙ্গ মৌসুমের জন্যে আম্পায়ার হিসেবে অন্তর্ভুক্ত হন।

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. "Nick Cook"। www.cricketarchive.com। সংগ্রহের তারিখ ২০১১-০৯-২৯ 
  2. "3rd Test: England v New Zealand at Lord's, Aug 11-15, 1983"espncricinfo। সংগ্রহের তারিখ ১৩ ডিসেম্বর ২০১১ 
  3. Bateman, Colin (১৯৯৩)। If The Cap Fits। Tony Williams Publications। পৃষ্ঠা 42। আইএসবিএন 1-869833-21-X 

আরও দেখুন[সম্পাদনা]

বহিঃসংযোগ[সম্পাদনা]