হেমন্ত বিক্রেমারত্নে

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
হেমন্ত বিক্রেমারত্নে
හේමන්ත වික්‍රමරත්න
ব্যক্তিগত তথ্য
পূর্ণ নামরানাসিংহে পত্তিকিরিকোরালালাগে অরুণা হেমন্ত বিক্রেমারত্নে
জন্ম২১ ফেব্রুয়ারি, ১৯৭১
কলম্বো, শ্রীলঙ্কা
ব্যাটিংয়ের ধরনডানহাতি
ভূমিকাউইকেট-রক্ষক
আন্তর্জাতিক তথ্য
জাতীয় পার্শ্ব
ওডিআই অভিষেক
(ক্যাপ ৭২)
৪ সেপ্টেম্বর ১৯৯৩ বনাম দক্ষিণ আফ্রিকা
শেষ ওডিআই১৬ ডিসেম্বর ১৯৯৩ বনাম ওয়েস্ট ইন্ডিজ
খেলোয়াড়ী জীবনের পরিসংখ্যান
প্রতিযোগিতা ওডিআই
ম্যাচ সংখ্যা
রানের সংখ্যা
ব্যাটিং গড় ২.০০
১০০/৫০ -/-
সর্বোচ্চ রান
বল করেছে -
উইকেট -
বোলিং গড় -
ইনিংসে ৫ উইকেট -
ম্যাচে ১০ উইকেট -
সেরা বোলিং -
ক্যাচ/স্ট্যাম্পিং -/-
উৎস: ইএসপিএনক্রিকইনফো.কম, ২১ ফেব্রুয়ারি ২০২১

রানাসিংহে পত্তিকিরিকোরালালাগে অরুণা হেমন্ত বিক্রেমারত্নে (সিংহলি: හේමන්ත වික්‍රමරත්න; জন্ম: ২১ ফেব্রুয়ারি, ১৯৭১) কলম্বো এলাকায় জন্মগ্রহণকারী সাবেক শ্রীলঙ্কান আন্তর্জাতিক ক্রিকেটার। শ্রীলঙ্কা ক্রিকেট দলের অন্যতম সদস্য ছিলেন তিনি। ১৯৯০-এর দশকের সূচনালগ্নে সংক্ষিপ্ত সময়ের জন্যে শ্রীলঙ্কার পক্ষে আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে অংশগ্রহণ করেছেন।

ঘরোয়া প্রথম-শ্রেণীর শ্রীলঙ্কান ক্রিকেটে বাদুরেলিয়া স্পোর্টস ক্লাব, বাসনাহিরা সাউথ, রাগামা ক্রিকেট ক্লাব ও সিংহলীজ স্পোর্টস ক্লাবের প্রতিনিধিত্ব করেন। দলে তিনি মূলতঃ উইকেট-রক্ষক হিসেবে খেলতেন। এছাড়াও, ডানহাতে নিচেরসারিতে ব্যাটিং করতেন হেমন্ত বিক্রেমারত্নে

খেলোয়াড়ী জীবন[সম্পাদনা]

১৯৯০-৯১ মৌসুম থেকে ২০০৯ সাল পর্যন্ত হেমন্ত বিক্রেমারত্নে’র প্রথম-শ্রেণীর খেলোয়াড়ী জীবন চলমান ছিল। ২৭ নভেম্বর, ২০০০ সালে প্রিমিয়ার লিমিটেড ওভার টুর্নামেন্টের সেমিফাইনালে সর্বোচ্চ ৪৯ রান তুলেন।

সমগ্র খেলোয়াড়ী জীবনে তিনটিমাত্র ওডিআইয়ে অংশগ্রহণ করেছেন হেমন্ত বিক্রেমারত্নে। ৪ সেপ্টেম্বর, ১৯৯৩ তারিখে কলম্বোয় সফরকারী দক্ষিণ আফ্রিকা দলের বিপক্ষে একদিনের আন্তর্জাতিকে অভিষেক ঘটে তার। ১৬ ডিসেম্বর, ১৯৯৩ তারিখে এই মাঠে সফরকারী ওয়েস্ট ইন্ডিজ দলের বিপক্ষে সর্বশেষ ওডিআইয়ে অংশ নেন তিনি। তাকে কোন টেস্টে অংশগ্রহণ করার সুযোগ দেয়া হয়নি।

অবসর[সম্পাদনা]

নভেম্বর, ২০১৮ সালে শ্রীলঙ্কা ক্রিকেটের জাতীয় দল নির্বাচকমণ্ডলীর সদস্যরূপে মনোনীত হন।[১]

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. "Sri Lanka Cricket announce new selection panel"International Cricket Council। সংগ্রহের তারিখ ২৫ নভেম্বর ২০১৮ 

আরও দেখুন[সম্পাদনা]

বহিঃসংযোগ[সম্পাদনা]