মাদনী মিয়া

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
শায়খ আল-ইসলাম

সৈয়দ মুহাম্মদ মাদনী আশরাফ আল আশরাফী আল জিলানি
Syed muhammad madani miya.jpg
শায়খুল ইসলাম ট্রাস্ট এবং মুহাদ্দিস-এ-আজম মিশনের প্রতিষ্ঠাতা ও সভাপতি
রাষ্ট্রপতিশায়খ উল ইসলাম ট্রাস্ট

মুহাদ্দিস এ আজম মিশন আন্তর্জাতিক মুহাদ্দিস এ আজম মিশন

মাদানী মিয়া আরবি কলেজ
ব্যক্তিগত বিবরণ
জন্ম (1938-08-28) ২৮ আগস্ট ১৯৩৮ (বয়স ৮৩)
আশরাফপুর কিচাওয়াচা, উত্তর প্রদেশ, ভারত
দাম্পত্য সঙ্গীসৈয়দা শামীমা খাতুন
সম্পর্কহাশমী মিয়া (ছোট ভাই)
সন্তানসৈয়দ হামযা আশরাফ মিয়া আশরাফী
পিতাআল্লামা পীর সৈয়দ শাহ মুহাম্মদ আবুল মুহামিদ আল-আশরাফী আল-জিলানি (মুহাদ্দিস এ আজম এ হিন্দ)
বাসস্থানমাদনী মাসকান আহমেদাবাদ এবং আশরাফপুর কিচাওয়াচা
প্রাক্তন শিক্ষার্থীআল জামিয়াতুল আশরাফিয়া, দারুল উলুম আশরাফিয়া
পেশাইসলামী পণ্ডিত"
যে জন্য পরিচিতইসলামী পণ্ডিত এবং সামাজিক নেতা
মাদনী মিয়া
উপাধিশায়খ আল-ইসলাম
মুজাদ্দিদ এ আজম
ইমাম-এ-হুমাম
রাইসুল-উল-মুহাকিকিন
ব্যক্তিগত
জন্ম
সৈয়দ মুহাম্মদ মাদনী
ধর্মইসলাম
যুগআধুনিক যুগ
আখ্যাআশরাফী
সুন্নি
বংশসৈয়দ
ব্যবহারশাস্ত্রহানাফি
প্রধান আগ্রহসুফিবাদ
উল্লেখযোগ্য ধারণাইসলামে ভিডিওগ্রাফির ব্যবহারে শরিয়তের অনুমতি (শরীয়তের মধ্যে)।
উল্লেখযোগ্য কাজতাফসীর এ আশরাফী
তরিকাআশরাফী
মুসলিম নেতা
এর শিষ্যমুহাদ্দিসে আজম এ হিন্দ সৈয়দ মুহাম্মদ মুখতার আশরাফ

সৈয়দ মোহাম্মদ মাদনী আশরাফি আল জিলানী (উর্দু: سید محمد مدنی اشرف , হিন্দি: सैयद मोहम्मद मदनी अशरफ) প্রায়শই শায়খ আল-ইসলাম, মুজাদ্দিদ ই আজম এবং মাদনী মিয়া নামে পরিচিত। (জন্ম: ২৮ আগস্ট ১৯৩৮ সাল; ১ রজব ১৩৫৭ হিজরি) [১] একজন মুসলিম আইনজ্ঞ, ধর্মতত্ত্ববিদ, তপস্বী, হাদিস বিশারদ, আধ্যাত্মিক নেতা এবং ভারতের উত্তর প্রদেশের আশরাফপুর কিচাওয়াচার লেখক।[২][৩] তিনি আশরাফী সুফি তরিকার প্রতিষ্ঠাতা, সুফি দরবেশ সুলতান সৈয়দ মখদুম আশরাফ জাহাঙ্গীর সেমনানীর গ্রেট-গ্র্যান্ডসন।[৪]

জীবন[সম্পাদনা]

তিনি শাইখুল ইসলাম ট্রাস্টের প্রতিষ্ঠাতা।[৫][৬][৭] সৈয়দ মাদনী মিয়া ভারতের সুফি সুন্নী মুসলমানদের বিভিন্ন সামাজিক, একাডেমিক এবং অন্যান্য উন্নয়নমূলক কার্যক্রমের পৃষ্ঠপোষক। তিনি সব সময় দেশে সুফি সিলসিলার মধ্যে ঐক্যকে সমর্থন করেছেন। ইমাম আহমদ রেজা খানের সেবার প্রশংসা করে তিনি বলেছেন যে, মারকাযে-আহলে সুন্নাত বেরেলি এবং কিচাওয়াচা ভারতের মুসলমানদের দুটি চোখ, এগুলোকে আলাদা করা যায় না।[৮]

তাফসীর-এ-আশরাফী[সম্পাদনা]

তাফসীর-ই-আশরাফী হল কুরআনের একটি ফিকাহ সুন্নি ব্যাখ্যা (তাফসীর), যা প্রথমে মোহাদ্দেসে আজম ই হিন্দ দ্বারা রচিত এবং তার মৃত্যুর পর তার আধ্যাত্মিক উত্তরসূরি ও পুত্র সৈয়দ মোহাম্মদ মাদনী আশরাফ ২০০৮ সালে সম্পন্ন করেন।[৯]এটি সহজ শৈলী এবং এর সংক্ষিপ্ততার কারণে আজকে কুরআনের অন্যতম জনপ্রিয় ব্যাখ্যা হিসাবে স্বীকৃত।[১০][১১]এটির ব্যাপ্তি ১০ খণ্ডে, যা উর্দু এবং পরে ইংরেজিতে অনুবাদ করা হয়েছিল।

বই[সম্পাদনা]

  • ইসলাম কা তাসাউরি ইলা আউর মওদুদি সাহিব
  • দ্বীন আউর আকামাত এ দ্বীন
  • আল-আরবা'ইন আল-আশরাফী
  • বারান এ রহমত
  • মাসিলা হাযির ও নাযির
  • ইনাম আল-আমাল বিল নিয়্যাত
  • কারামাত-এ-গাউসে-এ-আজম
  • ইসলামি আইন
  • মুসলিম ব্যক্তিগত আইন নাকি ইসলামী আইন?
  • ইসলাম কা নাজরিয়া ইবাদাত আউর মাউদুদি সাহিব
  • দাওয়াত ও ইসলামি কা তানকিদি জাইযা
  • ফারিযায়ে দাওয়াত ও তাবলিগ
  • ভিডিও আউর টিভি কা শরয়ী ইস্তিমাল

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. "BARAN-E-REHMAT-BY-ALLAMA-MADNI-MIYAN" – Scribd-এর মাধ্যমে। 
  2. "T. V Aur Movie Ka Sharai Istemal URDU Shaykh Al Islam Syed Madni Ashrafi Ashrafi Jilani Kichhauchha Sharif"archive.org 
  3. "Renowned Islamic Scholar Madani Miyan in Hyderabad"siasat.com। ৪ সেপ্টেম্বর ২০১৯। 
  4. "मुस्लिम धर्मगुरु सैयद हाशमी मियां ने दिया शांति-सद्भावना का पैगाम"naidunia.com। ১৮ মার্চ ২০১৮। 
  5. "Winter Blanket Distribution by Shaikh-ul-Islam Trust"mytankaria.com 
  6. "શૈખુલ ઈસ્લામ ટ્રસ્ટ પેટલાદ દ્વારા મફત મેડિકલ કેમ્પનું આયોજન"divyabhaskar.co.in। ১১ মার্চ ২০১৯। 
  7. "Mohaddise Azam Mission Worldwide Movement"localprayers.com 
  8. "मुसलमानों की एक आंख बरेली और दूसरी किछौछा है, इन्हें कोई जुदा नहीं कर सकता : हाशमी मियां"Dainik Bhaskar (হিন্দি ভাষায়)। ২০১৮-০৩-২০। সংগ্রহের তারিখ ২০২০-১২-১৮ 
  9. "मुसलमानों की एक आंख बरेली और दूसरी किछौछा है, इन्हें कोई जुदा नहीं कर सकता : हाशमी मियां"Dainik Bhaskar 
  10. "Shaykh ul Islam"। সেপ্টেম্বর ২৩, ২০১৫। 
  11. "list of tafseer books - Best Quran Tafseer in Urdu, Arabic"। অক্টোবর ৭, ২০১৭।