বৃত্তের বাইরে

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
Jump to navigation Jump to search
বৃত্তের বাইরে
Britter Bairey.jpg
চলচ্চিত্রের পোস্টার
পরিচালক গোলাম রাব্বানী বিপ্লব
প্রযোজক ইবনে হাসান খান
ফরিদুর রেজা সাগর (ইমপ্রেস টেলিফিল্ম)
রচয়িতা গোলাম রাব্বানী বিপ্লব
শ্রেষ্ঠাংশে জয়ন্ত চট্টোপাধ্যায়
ফিরোজ কবির ডলার
শহিদুল আলম সাচ্চু
ফজলুর রহমান বাবু
কংকন
রাশেদা রওনক
আজহারুল ইসলাম খান
হাবীব আহসান
রিমু খন্দকার
ফারিয়া
জিবরান তানভীর
রোকেয়া প্রাচী
আঞ্জুমান আরা বকুল।
সুরকার বাপ্পা মজুমদার
চিত্রগ্রাহক মাহফুজুর রহমান খান
সম্পাদক জুনায়েদ হালিম
পরিবেশক ইমপ্রেস টেলিফিল্ম
মুক্তি ২০০৯
দৈর্ঘ্য ৮৭ মিনিট
দেশ  বাংলাদেশ
ভাষা বাংলা

বৃত্তের বাইরে এটি ২০০৯-এর একটি বাংলাদেশী চলচ্চিত্র। চলচ্চিত্রটি ২০০৯-এ অস্কার বাংলাদেশ কমিটি এ চলচ্চিত্রটিকে ৮২তম অস্কারের সেরা বিদেশী ভাষার চলচ্চিত্র হিসেবে একাডেমি পুরস্কারের জন্য বাংলাদেশ থেকে নিবেদন করেছিল।[১][২] ইমপ্রেস টেলিফিল্ম এর ব্যানারে নির্মিত এ ছবিটি পরিচালনা করেছেন গোলাম রাব্বানী বিপ্লব। ২০০৭-এ তিনি স্বপ্নডানায় নির্মাণ করে দারুণ আলোচিত হয়েছেন। ভারতের গোয়ায় অনুষ্ঠেয় ৪০তম আন্তর্জাতিক চলচ্চিত্র উৎসবের প্রতিযোগিতা বিভাগের জন্যও ছবিটি মনোনীত হয়।

কাহিনীসূত্র[সম্পাদনা]

জীবনদর্শন ও অর্থনৈতিক ব্যবস্খা হচ্ছে "বৃত্তের বাইরে" ছবিটির মূল ভাবনা। ব্যক্তি স্বাতন্ত্র্যের সাথে বাজার ব্যবস্থার সংঘাতের মধ্যে ষাটোর্ধ্ব অতিসাধারণ এক গ্রামীণ বংশীবাদক হরিপদ পাল আর তার পালক-পুত্র মকবুলের রাজধানী শহর দেখতে আসার ঘটনাকে কেন্দ্র করে আবর্তিত হয়েছে এ ছবির কাহিনী । হরিপদ পাল উত্তর বঙ্গের কোনো এক অজপাড়া গাঁয়ের বংশীবাদক। সে হিন্দু হয়েও দত্তক নিয়েছে মকবুল নামের একটি মুসলমান ছেলেকে। এক সাংবাদিক এই বংশীবাদকের খোঁজ পেয়ে তার একটি সাক্ষাৎকার নেন। তা পত্রিকায় মুদ্রিত ও প্রকাশিত হয়। সেলিম নামের এই সাংবাদিকটি আবার ওই গ্রামে যান এবং হরিপদ পালকে ঢাকায় আসার আমন্ত্রণ জানান। শহর দেখার কৌতূহলে ঢাকায় আসে হরিপদ পাল ও মকবুল। ঢাকায় আসার পর হরিপদ বুঝতে পারেন তার শিল্পী-সত্ত্বাকে ব্যবসার পুঁজিতে পরিণত করার চেষ্টা চলছে, তার প্রতিভাকে পণ্যে পরিণত করার চেষ্টা চলছে। তিনি তখন এই বৃত্তকে ভেঙ্গে গ্রামে ফিরে যাওয়ার জন্য ব্যস্ত হয়ে পড়েন। এ রকম একটি কাহিনীর মধ্য দিয়েই প্রতিষ্ঠানের বিরূদ্ধে সাধারণ মানুষের মুক্তিস্পৃহার চিত্র ফুটিয়ে তোলা হয়েছে।

কারিগরী বিবরণ[সম্পাদনা]

৩৫ মি.মি. (১:১.৮৫), ডলবি ডিজিটাল (৫:১) ফরম্যাটে নির্মিত। ছবিটির দৈর্ঘ্য ৮৭ মিনিট। ছবিটিতে ইংরেজি সাব-টাইটেলসহ প্রদর্শিত হবে। ‍‌‌

অভিনয়শিল্পী[সম্পাদনা]

  • জয়ন্ত চট্টোপাধ্যায়,
  • ফিরোজ কবির ডলার,
  • শহিদুল আলম সাচ্চু,
  • ফজলুর রহমান বাবু,
  • কংকন, রাশেদা রওনক,
  • আজহারুল ইসলাম খান,
  • হাবীব আহসান,
  • রিমু খন্দকার,
  • ফারিয়া,
  • জিবরান তানভীর,
  • রোকেয়া প্রাচী
  • আঞ্জুমান আরা বকুল।

কলাকুশলী[সম্পাদনা]

  • প্রযোজক - ইবনে হাসান খান ও ফরিদুর রেজা সাগর
  • প্রযোজনা প্রতিষ্ঠান - ইমপ্রেস টেলিফিল্ম
  • পরিচালক - গোলাম রাব্বানী বিপ্লব
  • কাহিনী - গোলাম রাব্বানী বিপ্লব
  • কাহিনীবিন্যাস - আনিসুল হক
  • চিত্রনাট্য - গোলাম রাব্বানী বিপ্লব
  • চিত্রগ্রহণ - মাহফুজুর রহমান খান
  • সম্পাদনা - জুনায়েদ হালিম
  • সঙ্গীত পরিচালক - বাপ্পা মজুমদার
  • শব্দ পরিকল্পনায় - সুজন মাহমুদ ও অনুপ মুখার্জি
  • মেকআপ - মোহাম্মদ সেলিম।
  • পরিবেশক - ইমপ্রেস টেলিফিল্ম

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

বহিঃসংযোগ[সম্পাদনা]