নুবিয়ান মরুভূমি

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
মহাকাশ থেকে দেখা যায় নুবিয়ান মরুভূমির অংশ।

নুবিয়ান মরুভূমি (আরবি: صحراء النوبة‎‎, Şaḩrā’ an Nūbyah) সাহারা মরুভূমির পূর্ব অঞ্চলে প্রায় ৪০০,০০০ কিমি বিস্তৃত উত্তর-পূর্ব সুদান এবং উত্তর ইরিত্রিয়া, নীলনদ এবং লোহিত সাগরের তীরে অবস্থিত একটি মরুভূমি। শুষ্ক মরু অঞ্চলটি রুক্ষ শক্ত পাথরযুক্ত এবং এখানে কয়েকটি টিলা রয়েছে। এতে অনেকগুলি ওয়াদি রয়েছে যা নীল নদে পৌঁছানোর আগেই মারা গিয়েছে। নুবিয়ান মরুভূমিতে গড় বার্ষিক বৃষ্টিপাত ৫ ইঞ্চি (১৩০ মিমি) এরও কম।[১]

এই অঞ্চলের আদি বাসিন্দা হচ্ছেন নুবিয়ানরা। নীল নদ এই মরুভূমির মধ্য দিয়ে যাওয়ার সময় এর বেশিরভাগ প্রপাতের মধ্য দিয়ে যায়। এটি নীল নদের মহান বাঁকের ঠিক আগে। নুবিয়ান মরুভূমি প্রাচীন মিশরের সভ্যতাটিকে বিভিন্ন উপায়ে প্রভাবিত করেছিল। প্রাচীন মিশরের ব্যবসায়ীরা নুবিয়ার মরুভূমির উপর দিয়ে নুবিয়ার প্রাচীন সভ্যতা থেকে স্বর্ণ, কাপড়, পাথর, খাবার এবং আরও অনেক কিছুর কেনার জন্য ভ্রমণ করতেন।

নুবিয়ান মরুভূমির বৃহত্তম শহর হলো পোর্ট সুদান। এটি মরুভূমির পূর্ব প্রান্তে, লোহিত সাগরের উপর অবস্থিত। নুবিয়ান মরুভূমির অন্যান্য গুরুত্বপূর্ণ শহরগুলি হল একই নদীর আটবাড়া, পাশাপাশি লোহিত সাগরের ম্যাসাভা। আবিদিয়া শহরটি নীল নদের তীরে অবস্থিত।

এই মরুভূমি সমালোচনামূলকভাবে বিপন্ন খেজুর মেডেমিয়া আরগুনের একমাত্র আবাসস্থল, যা মরুভূমির কিছু প্রান্তে খুব কমই দেখা যায়।[২]

৭ ই অক্টোবর, ২০০৮ নাইটিয়ান মরুভূমির উপরে ২০০৮টিসি৩ উল্কাটি বিস্ফোরিত হয়। তখন আকাশ এত উজ্জ্বল হয়ে উঠেছিল যে, কয়েকশ মাইল দূরের লোকেরা আলোটি দেখেছিল।[৩]

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. "Nubian Desert, Encyclopædia Britannica"। ৪ মে ২০১৫ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২৬ নভেম্বর ২০২০ 
  2. List of Threatened Species ওয়েব্যাক মেশিনে আর্কাইভকৃত ৭ অক্টোবর ২০০৬ তারিখে, IUCN Red List
  3. Recovered Pieces of Asteroid Hold Clues to Early History ওয়েব্যাক মেশিনে আর্কাইভকৃত ২৪ ফেব্রুয়ারি ২০১৫ তারিখে, March 25, 2009, New York Times