চুচেন্‌ফা

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
চাওফা চ্যু-চেন-ফা
চাওফা
আসামের রাজা
রাজত্ব১৪৩৯ সাল থেকে ১৪৮৮ সাল পর্যন্ত
পূর্ণ নাম
চাওফা চ্যু-চেন-ফা
রাজবংশছ্যু ফৈদ , আহোম রাজবংশ
ধর্মআহোম ধর্ম

চাওফা চ্যু-চেন-ফা ১৪৩৯ সাল থেকে ১৪৮৮ সাল পর্যন্ত আহোম রাজ্য শাসন করা স্বর্গদেউ। আহোম বুরঞ্জীসমূহ তাঁকে ভাল শাসক আখ্যা দিয়েছিল এবং প্রজারা সুখে জীবন কেটেয়েছিল। তাঁর সুদীর্ঘ ৪৯ বছর রাজত্ব করেছিলেন। টাংসু নাগাদের আক্রমণ তাঁর শাসনকালে হওয়া একমাত্র সংকট ছিল এবং তিনি নিজবলে তা প্রতিহত করেছিলেন।

পূর্বপুরুষ এবং সিংহারোহণ[সম্পাদনা]

টিপমিতে একজন কুঁওরীর দিক থেকে আহোম রাজা চুফক্‌ফার জ্যেষ্ঠ পুত্র ছিল চুচেনফা। মা-বাবা তাঁকে ত্যাওফাচুফুক নাম দিয়েছিলেন। বাবার মৃত্যুর পরে ১৪৩৯ সালে তিনি চুচেনফা নাম নিয়ে শিঙরি ঘরে ওঠেন।[১]

রাজত্বকাল[সম্পাদনা]

টাংসু নাগার বিরুদ্ধে অভিযান[সম্পাদনা]

টাংসু নাগারা আহোম রাজ্যে বারে বারে আক্রমণ করে জন-ধনের হানি করেছিল। তাঁরা কাছের নাগা জাতিগুলিকে আক্রমণ করেছিল। তাদের একটি জাতি অখম্পা নগা চুচেনফাকে তরোয়াল প্রদান করে দলে নেয়। তাঁরা টাংসু নাগাদের বিরুদ্ধে পদক্ষেপ নিতে স্বর্গদেউকে অনুরোধ করে। চুচেনফা ততালিক সৈন্য তৈরি করে নিজে নেতৃত্ব দিয়ে টাংসু নাগার বিরুদ্ধে অভিযান চালান। তুমুল যুদ্ধে আহোমদের ১৪০ জন সৈনিকদের প্রাণ যায় যদিও শেষে তাঁরা নাগাদের পরাস্ত করে।[২] অন্য এক সূত্রের মতে আহোমরা যুদ্ধে প্রায় পরাজয় বরণ করে পিছিয়ে গিয়েছিল। তখন বংরুকিয়া গোহাঁ সৈন্য সাজিয়ে পুনরায় টাংসু নাগাদের আক্রমণ করে পরাস্ত করেন। আহোম টাংসু নাগাদের গাঁগুলি ধ্বংস করে তাঁদের শরণাগত হতে বাধ্য করেন।[৩][৪]

শংকরদেবর জন্ম[সম্পাদনা]

চুচেনফার রাজত্বকালে ১৪৪৯ সালে বৈষ্ণব সংস্কৃতির হোতা, সমাজ সংস্কারক শংকরদেবের নগাঁওয়ের বরদোবার কাছে জন্ম হয়। তিনি সেই অঞ্চলের ভূঞাদের দলপতি কুসুম্বর ভূঞার পুত্র ছিলেন।[৫][৬]

পাদটিকা[সম্পাদনা]

  1. (Barbaruah 1981, পৃ. 41)
  2. (Barua 2008, পৃ. 56-57)
  3. (Gait 1926, পৃ. 85)
  4. (Barbaruah 1981, পৃ. 41)
  5. (Barua 2008, পৃ. 58)
  6. (Barbaruah 1981, পৃ. 41)

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  • Barbaruah, Hiteswar (১৯৮১)। Ahomar-Din or A History of Assam under the Ahoms (Assamese ভাষায়) (1 সংস্করণ)। Guwahati: Publication Board of Assam। 
  • Barua, Gunaviram (২০০৮)। Assam Buranji or A History of Assam (4 সংস্করণ)। Guwahati: Publication Board of Assam। 
  • Gait, E A (১৯২৬)। A History of Assam (2 সংস্করণ)। Calcutta: Thackar, Spink and Co।