আলাপ:বাংলার খাদ্য

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন

খাবারকে শ্রেণীবদ্ধ করা (সকলের সহায়তা এবং রিভিউ দরকার)[সম্পাদনা]

বাংলার খাদ্যকে শ্রেণীবদ্ধ করাটা যে একটা চ্যালেঞ্জ, সে বেলায়েত ভাই বেশ সহজেই বলে দিয়েছেন, এবং সত্যি কথাও তাই। বাংলার খাদ্য এতো রকমারি যে, সহজে শ্রেণীবদ্ধ করার জো নেই। যেহেতু নিবন্ধটি ধীরে ধীরে এগোনোর পরিকল্পনায় তৈরি তাই কাজটা ধীরে ধীরে হলেও হোক সকলের সহায়তায়। শুরুতেই আমরা ধীরে ধীরে এখানে বাংলার খাদ্যগুলোর নাম তালিকাবদ্ধ করবো। এজন্য উভয় বাংলার অবদানকারীর সহায়তা দরকার। খাদ্যগুলোর নাম তালিকাবদ্ধ হয়ে গেলে সেগুলোকে কী কী শ্রেণীতে ফেলা যায়, তাও ঠিক করা যাবে। এই অংশে যখন যা মনে আসবে তা-ই যোগ করার অনুরোধ থাকলো। শুরু করার নিমিত্তে আমি কয়েকটি শ্রেণী তৈরি করেছি। পছন্দ হলে এবং যৌক্তিক হলে সেগুলো রাখা যায়, অথবা নতুন শ্রেণী তৈরি করে খাবারের নাম রাখা যায়। —মঈনুল ইসলাম (আলাপ * অবদান) ১৪:১৬, ২৫ নভেম্বর ২০১০ (ইউটিসি)

তথ্য সহায়তার জন্য বাংলাদেশের খাদ্য এবং বাংলার খাদ্য নামক দুটো বিষয়শ্রেণীর সহায়তা নেয়া যায়। এবং আমার মত হচ্ছে এই দুটো বিষয়শ্রেণীর অধীনে থাকা সকল নিবন্ধই স্থান ও শ্রেণীভেদে এখানে পূণর্লিখন জরুরি। —মঈনুল ইসলাম (আলাপ * অবদান) ১৫:৫১, ২৫ নভেম্বর ২০১০ (ইউটিসি)

খাদ্যের শ্রেণীভেদ[সম্পাদনা]

  • প্রধান খাদ্য:
  • সাধারণ খাদ্য:
  • চটকদার খাদ্য: (পুষ্টিগুণে নগন্য হলেও খাওয়া হয় বেশ ঘটা করে)
  • আঞ্চলিক খাদ্য: (অঞ্চলভেদে প্রসিদ্ধ খাদ্যগুলোকে রাখা যায়: তবে এনিয়ে আমার নিজেরই মতভেদ আছে)
  • খাদ্য অনুষঙ্গ: (সরাসরি খাওয়া হয়না কিন্তু খাদ্য তৈরিতে ব্যবহৃত হয়)

পুনঃনির্দেশিত[সম্পাদনা]

বাঙালি রন্ধনশৈলী নিবন্ধে এই নিবন্ধটি একই বিষয়বস্তু হওয়ায় পুনঃনির্দেশিত হল। Ibrahim Husain Meraj (আলাপ) ১৯:১৪, ২৭ নভেম্বর ২০১৬ (ইউটিসি)