২০১৯–২০ স্পেনীয় সুপার কাপ

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
২০১৯–২০ স্পেনীয় সুপার কাপ
বিবরণ
স্বাগতিক দেশ সৌদি আরব
শহরজেদ্দা
তারিখ৮–১২ জানুয়ারি ২০২০
দল
মাঠ১ (১টি আয়োজক শহরে)
চূড়ান্ত অবস্থান
চ্যাম্পিয়নরিয়াল মাদ্রিদ (১১তম শিরোপা)
রানার-আপআতলেতিকো মাদ্রিদ
পরিসংখ্যান
ম্যাচ
গোল সংখ্যা৯ (ম্যাচ প্রতি ৩টি)
দর্শক সংখ্যা১,৫৮,৩৪০ (ম্যাচ প্রতি ৫২,৭৮০ জন)
শীর্ষ গোলদাতা

২০১৯–২০ স্পেনীয় সুপার কাপ রয়্যাল স্প্যানিশ ফুটবল ফেডারেশন (আরএফইএফ) দ্বারা আয়োজিত স্পেনীয় সুপার কাপের ৩৬তম আসর ছিল, যেখানে পূর্ববর্তী মৌসুমে স্পেনীয় ফুটবল লিগ পদ্ধতির মূল প্রতিযোগিতায় সফল দলগুলো অংশগ্রহণ করেছিল। এই আসরে স্পেনের স্পেনীয় ফুটবল লিগ পদ্ধতির প্রথম স্তরের লীগ লা লিগার চ্যাম্পিয়ন ও কোপা দেল রেইয়ের রানার-আপ বার্সেলোনা, লা লিগার রানার-আপ আতলেতিকো মাদ্রিদ, লা লিগার তৃতীয় স্থান অধিকারী রিয়াল মাদ্রিদ এবং স্পেনের প্রধান কাপ প্রতিযোগিতা কোপা দেল রেইয়ের চ্যাম্পিয়ন ভালেনসিয়া প্রতিদ্বন্দ্বিতা করেছিল। এই আসরের ম্যাচগুলো ২০২০ সালের ৮ হতে ১২ই জানুয়ারি তারিখ সৌদি আরবের জেদ্দার বাদশাহ আব্দুল্লাহ স্পোর্টস সিটিতে অনুষ্ঠিত হয়েছিল।[১]

২০১৯ সালের ফেব্রুয়ারি মাসে এক ঘোষণায় জানানো হয়েছিল যে এই আসরটি দুই দলের পরিবর্তে চারটি দলে অংশগ্রহণে অনুষ্ঠিত হবে, যেখানে দুটি সেমি-ফাইনাল অন্তর্ভুক্ত থাকবে।[২] সৌদি সরকার স্পেনীয় সুপার কাপের পরবর্তী তিন আসরের প্রতিটির জন্য ৪০ মিলিয়ন ইউরো প্রদানের চুক্তি স্বাক্ষরের পর এই প্রতিযোগিতাটি প্রথমবারের মতো সৌদি আরবে অনুষ্ঠিত হয়েছিল।[৩]

বার্সেলোনা স্পেনীয় সুপার কাপের পূর্ববর্তী আসরের চ্যাম্পিয়ন, যারা ২০১৮ সালের ফাইনালে সেভিয়াকে ২–১ গোলের ব্যবধানে পরাজিত করে ত্রয়োদশবারের মতো শিরোপা জয়লাভ করেছিল।[৪][৫][৬] ১২ই জানুয়ারি তারিখে বাদশাহ আব্দুল্লাহ স্পোর্টস সিটিতে অনুষ্ঠিত ফাইনালে রিয়াল মাদ্রিদ আতলেতিকো মাদ্রিদের সাথে অতিরিক্ত সময় শেষে ০–০ গোলে ড্র করার পর পেনাল্টি শুট-আউটে ৪–১ গোলের ব্যবধানে পরাজিত করে স্পেনীয় সুপার কাপের ইতিহাসে একাদশবারের মতো শিরোপা জয়লাভ করেছে।[৭][৮]

দল[সম্পাদনা]

স্পেনীয় সুপার কাপের এই আসরে ২০১৮–১৯ কোপা দেল রেই এবং ২০১৮–১৯ লা লিগার চ্যাম্পিয়ন এবং রানার-আপ দল স্বয়ংক্রিয়ভাবে উত্তীর্ণ হয়েছিল। তবে, বার্সেলোনা ২০১৮–১৯ লা লিগার চ্যাম্পিয়ন এবং ২০১৮–১৯ কোপা দেল রেইয়ের রানার-আপ হওয়ায় অতিরিক্ত স্থানটি লা লিগার তৃতীয় স্থান অধিকারী রিয়াল মাদ্রিদকে প্রদান করা হয়েছিল।[৯]

দল বাছাইপর্ব চ্যাম্পিয়ন
বার্সেলোনা ২০১৮–১৯ লা লিগার চ্যাম্পিয়ন
২০১৮–১৯ কোপা দেল রেইয়ের রানার-আপ
১৩ (১৯৮৩, ১৯৯১, ১৯৯২, ১৯৯৪, ১৯৯৬, ২০০৫, ২০০৬, ২০০৯, ২০১০, ২০১১, ২০১৩, ২০১৬, ২০১৮)
ভালেনসিয়া ২০১৮–১৯ কোপা দেল রেইয়ের চ্যাম্পিয়ন ১ (১৯৯৯)
আতলেতিকো মাদ্রিদ ২০১৮–১৯ লা লিগার রানার-আপ ২ (১৯৮৫, ২০১৪)
রিয়াল মাদ্রিদ ২০১৮–১৯ লা লিগায় তৃতীয় স্থান অধিকারী ১০ (১৯৮৮, ১৯৮৯, ১৯৯০, ১৯৯৩, ১৯৯৭, ২০০১, ২০০৩, ২০০৮, ২০১২, ২০১৭)

ম্যাচ[সম্পাদনা]

এই আসরের ম্যাচের ড্র ২০১৯ সালের ১১ই নভেম্বর তারিখে লা সিউদাদ দেল ফুটবলের রয়্যাল স্প্যানিশ ফুটবল ফেডারেশনের প্রধান কার্যালয়ে অনুষ্ঠিত হয়েছিল। এই ড্রয়ের ক্ষেত্রে কোন শর্ত না।[১০][১১]

এই আসরে অংশগ্রহণকারী ৪টি দল সেমি-ফাইনালে একে অপরের মুখোমুখি হয়েছিল। অতঃপর দুই সেমি-ফাইনালে বিজয়ী ফাইনালে উত্তীর্ণ হয়েছিল, যেখানে তারা শিরোপা জয়লাভের জন্য একে অপরের মুখোমুখি হয়েছিল। এই আসরের সকল ম্যাচ সৌদি আরবের জেদ্দার বাদশাহ আব্দুল্লাহ স্পোর্টস সিটিতে অনুষ্ঠিত হয়েছিল।

নিম্নে তালিকাভুক্ত সকল ম্যাচের সময় আরব মান সময় অনুসারে উল্লেখ করা হয়েছে (ইউটিসি+৩)

বন্ধনী[সম্পাদনা]

 
সেমি-ফাইনালফাইনাল
 
      
 
৮ জানুয়ারি ২০২০ – জেদ্দা
 
 
ভালেনসিয়া
 
১২ জানুয়ারি ২০২০ – জেদ্দা
 
রিয়াল মাদ্রিদ
 
রিয়াল মাদ্রিদ (পেনাল্টি) ০ (৪)
 
৯ জানুয়ারি ২০২০ – জেদ্দা
 
আতলেতিকো মাদ্রিদ ০ (১)
 
বার্সেলোনা
 
 
আতলেতিকো মাদ্রিদ
 

সেমি-ফাইনাল[সম্পাদনা]


ফাইনাল[সম্পাদনা]

সমালোচনা[সম্পাদনা]

মানবাধিকার পরিস্থিতি (বিশেষ করে মৃত্যুদণ্ড, ইয়েমেনে সৌদি হস্তক্ষেপ, জামাল খাসোগিকে হত্যা, মত প্রকাশের স্বাধীনতা এবং নারী অধিকারের পরিস্থিতি উল্লেখ করে অ্যামনেস্টি ইন্টারন্যাশনালের স্পেনীয় বিভাগ খেলার মাঠ হিসেবে সৌদি আরবকে নির্বাচিত করার সমালোচনা করেছিল।[১৫] স্পেনীয় সরকারও সৌদি আরবে খেলার সম্ভাবনা প্রত্যাখ্যান করেছিল।[১৬] আরএফইএফ-এর তৎকালীন সভাপতি লুইস রুবিয়ালেস সৌদি কর্তৃপক্ষের সাথে আলোচনা করেছিলেন যে, এই আসরের ম্যাচের সময় স্টেডিয়ামে নারীদের জন্য আলাদা স্থান নির্ধারণ না করে, নারী দর্শকদের স্টেডিয়ামের যেকোন জায়গায় বসার সুযোগ দিতে হবে।[৩] এআই এই অর্জনকে অনুমোদন করে দাবি করেছিল যে এটি যথেষ্ট নয়।[১৭]

এই আসর আয়োজনের পূর্বে ২০১৯ সালের ২২শে ডিসেম্বর তারিখে সৌদি কর্তৃপক্ষ ২০১৯ সুপারকোপ্পা ইতালিয়ানা আয়োজন করেছেন।[৩]

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. "Supercopa de España 2019–20: nuevo formato, cuándo se juega, dónde y equipos"goal.com। সংগ্রহের তারিখ ৫ আগস্ট ২০১৯ 
  2. "Rubiales propondrá el formato final four para la Supercopa | rfef.es"www.rfef.es। ১৯ ফেব্রুয়ারি ২০১৯ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ১৯ ফেব্রুয়ারি ২০১৯ 
  3. Kohan, Marisa (১৫ নভেম্বর ২০১৯)। "Así es Arabia Saudí, el país que albergará la Supercopa y que viola derechos humanos"www.publico.es (স্পেনীয় ভাষায়)। সংগ্রহের তারিখ ১৪ জুন ২০২০ 
  4. "RFEF"Servicios R.F.E.F (স্পেনীয় ভাষায়)। সংগ্রহের তারিখ ২৫ জানুয়ারি ২০২২ 
  5. Ruthven, Graham (১২ আগস্ট ২০১৮)। "Ousmane Dembele thunderbolt wins Spanish Super Cup for Barcelona"Eurosport। সংগ্রহের তারিখ ২৫ জানুয়ারি ২০২২ 
  6. "FC Barcelona win 13th Spanish Super Cup"Official FC Barcelona Website। ১২ আগস্ট ২০১৮। সংগ্রহের তারিখ ২৫ জানুয়ারি ২০২২ 
  7. "Real Madrid v Atletico Madrid: as it happened"The Guardian। ১২ জানুয়ারি ২০২০। সংগ্রহের তারিখ ১৪ জানুয়ারি ২০২০ 
  8. "Spanish Super Cup: Real Madrid beat Atletico Madrid on penalties"BBC Sport। ১২ জানুয়ারি ২০২০। সংগ্রহের তারিখ ১৪ জানুয়ারি ২০২০ 
  9. "Supercopa de España" (PDF)www.rfef.es। সংগ্রহের তারিখ ১৩ জানুয়ারি ২০২২ 
  10. "OFICIAL | El sorteo de la Supercopa de España será este lunes, 11 de noviembre" [The draw of the Supercopa de España will be this monday, 11 November] (স্পেনীয় ভাষায়)। Royal Spanish Football Federation। ৭ নভেম্বর ২০১৯। 
  11. "Real Madrid face Valencia while Barcelona meet Atletico Madrid in Supercopa de Espana semi-finals"Marca। ১১ নভেম্বর ২০১৯। সংগ্রহের তারিখ ১১ নভেম্বর ২০১৯ 
  12. "Valencia vs. Real Madrid – 8 January 2020"SoccerwayPerform Group। ৮ জানুয়ারি ২০২০। সংগ্রহের তারিখ ৮ জানুয়ারি ২০২০ 
  13. "Barcelona vs. Atletico Madrid – 9 January 2020"SoccerwayPerform Group। ৯ জানুয়ারি ২০২০। সংগ্রহের তারিখ ৯ জানুয়ারি ২০২০ 
  14. "Real Madrid vs. Atletico Madrid – 12 January 2020"SoccerwayPerform Group। ১২ জানুয়ারি ২০২০। সংগ্রহের তারিখ ১২ জানুয়ারি ২০২০ 
  15. Sportyou (২ অক্টোবর ২০১৯)। "Amnistía Internacional pide a la RFEF que se replantee la Supercopa de España en Arabia Saudí"20 Minutos (স্পেনীয় ভাষায়)। সংগ্রহের তারিখ ১৪ জুন ২০২০ 
  16. Sportyou (২৭ সেপ্টেম্বর ২০১৯)। "El Gobierno desaprueba celebrar la Supercopa de España en Arabia Saudí, pero la RFEF tiene más ofertas"20 Minutos (স্পেনীয় ভাষায়)। সংগ্রহের তারিখ ১৪ জুন ২০২০ 
  17. García, Domingo (১৫ নভেম্বর ২০১৯)। "Las peticiones de Amnistía Internacional para la Supercopa en Arabia Saudí"La Razón (স্পেনীয় ভাষায়)। সংগ্রহের তারিখ ১৪ জুন ২০২০