সৌদি আরবের বাদশাহ

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
সৌদি আরবের বাদশাহ
ملك المملكة العربية السعودية
Emblem of Saudi Arabia.svg
দায়িত্ব
Prince Salman bin Abd al-Aziz Al Saud at the Pentagon April 2012.jpg
সালমান বিন আবদুল আজিজ
২৩ জানুয়ারি ২০১৫ থেকে
বিস্তারিত
আপাত উত্তরাধিকারীমুহাম্মদ বিন সালমান
প্রথম সম্রাট/জ্ঞীআবদুল আজিজ ইবনে সৌদ
গঠন২২ সেপ্টেম্বর ১৯৩২
বাসভবনরাজপ্রাসাদ, রিয়াদ[১]
Emblem of Saudi Arabia.svg
 এই নিবন্ধটি সৌদি আরব রাজনীতি ও সরকার
ধারাবাহিকের অংশ
Basic Law
Foreign relations

সৌদি আরবের বাদশাহ হলেন সৌদি আরবের রাষ্ট্রপ্রধান। তিনি সৌদি রাজতন্ত্রের প্রধান হিসেবে দায়িত্বপালন করেন। বাদশাহকে খাদেমুল হারামাইন শরিফাইন (خادم الحرمين الشريفين) বলা হয়। ১৯৮৬ খ্রিষ্টাব্দে হিজ ম্যাজেস্টি সম্বোধনকে এই সম্বোধন দ্বারা প্রতিস্থাপন করা হয়েছে। এই উপাধি দ্বারা মসজিদুল হারামমসজিদে নববীর উপর সৌদি আরবের তত্ত্বাবধান বোঝানো হয়।

ইতিহাস[সম্পাদনা]

আবদুল আজিজ ইবনে সৌদ রিয়াদে তার পরিবারকে প্রতিষ্ঠিত করার মাধ্যমে ১৯০২ সালে বর্তমান সৌদি আরব জয় করা শুরু করেন। তিনি প্রথমে ১৯২২ সালে নজদ জয় করেন এবং এরপর ১৯২৫ সালে হেজাজ জয় করেন। এর ফলে তিনি নজদের সুলতান থেকে হেজাজ ও নজদের বাদশাহ এবং ১৯৩২ সালে সৌদি আরবের বাদশাহ হন।

উত্তরাধিকার[সম্পাদনা]

বাদশাহ আবদুল আজিজের মৃত্যুর পর থেকে তার ছেলেরা সৌদি আরব শাসনের দায়িত্ব পালন করছেন। সৌদি সিংহাসনের উপর তার সন্তানদের প্রাথমিক অধিকার বলে ধরে নেয়া হয়। এ দিক থেকে সৌদি রাজতন্ত্রের সাথে পাশ্চাত্য রাজতন্ত্রের পার্থক্য রয়েছে। পাশ্চাত্য রাজতন্ত্রে স্পষ্ট নির্দিষ্ট রাজপরিবার ও উত্তরাধিকারের ক্রম ঠিক করা থাকে।

আইনি অবস্থান[সম্পাদনা]

সৌদি আরব ইসলামি আইন দ্বারা শাসিত হয় এবং একটি ইসলামি রাষ্ট্র হিসেবে পরিচিত। তবে অনেক মুসলিম উত্তরাধিকার সূত্রে পাওয়া রাজত্বকে ইসলামে অনুমোদিত না বলে বিবেচনা করেন।[২]

অন্যান্য কর্মকাণ্ড[সম্পাদনা]

সৌদি আরবের বাদশাহ রাজ পরিবার আল সৌদের প্রধান ও প্রধানমন্ত্রী হিসেবে বিবেচিত হন। যুবরাজ উপপ্রধানমন্ত্রী হিসেবে দায়িত্বপালন করেন। ফয়সাল বিন আবদুল আজিজের পর থেকে বাদশাহরা দ্বিতীয় উপপ্রধানমন্ত্রী হিসেবে যুবরাজের উত্তরসুরি নিয়োগ দিয়েছেন।

সৌদি আরবের বাদশাহগণ (১৯৩২-বর্তমান)[সম্পাদনা]

নাম
জীবনকাল
শাসন শুরু
শাসন শেষ
নোট
পরিবার
ছবি
আবদুল আজিজ
  • ইবনে সৌদ
  • عبد العزيز
(১৮৭৬-১১-২৬)২৬ নভেম্বর ১৮৭৬ – ৯ নভেম্বর ১৯৫৩(১৯৫৩-১১-০৯) (৭৬ বছর) ২২ সেপ্টেম্বর ১৯৩২ ৯ নভেম্বর ১৯৫৩ দ্বিতীয় সৌদি রাষ্ট্রের শেষ শাসক আবদুর রহমান বিন ফয়সালের সন্তান এবং সৌদি আরবের প্রথম বাদশাহ আল সৌদ
সৌদ
  • سعود
(১৯০২-০১-১২)১২ জানুয়ারি ১৯০২ – ২৩ ফেব্রুয়ারি ১৯৬৯(১৯৬৯-০২-২৩) (৬৭ বছর) ৯ নভেম্বর ১৯৫৩ ২ নভেম্বর ১৯৬৪
(অপসারণ)
ইবনে সৌদ ও ওয়াদাহ বিনতে মুহাম্মাদ বিন আকাবের সন্তান আল সৌদ সৌদ বিন আবদুল আজিজ
ফয়সাল
  • فيصل
(১৯০৬-০৪-১৪)১৪ এপ্রিল ১৯০৬ – ২৫ মার্চ ১৯৭৫(১৯৭৫-০৩-২৫) (৬৮ বছর) ২ নভেম্বর ১৯৬৪ ২৫ মার্চ ১৯৭৫
(নিহত)
ইবনে সৌদ ও তারফা বিনতে আবদুল্লাহ বিন আবদুল আতিফ আল শাইখের সন্তান আল সৌদ ফয়সাল বিন আবদুল আজিজ
খালিদ
  • خالد
(১৯১৩-০২-১৩)১৩ ফেব্রুয়ারি ১৯১৩ – ১৩ জুন ১৯৮২(১৯৮২-০৬-১৩) (৬৯ বছর) ২৫ মার্চ ১৯৭৫ ১৩ জুন ১৯৮২ ইবনে সৌদ ও আল জাওহারা বিনতে মুসাইদ আল জুলুউয়ির সন্তান আল সৌদ খালিদ বিন আবদুল আজিজ
ফাহাদ
  • فهد
(১৯২১-০৩-১৬)১৬ মার্চ ১৯২১ – ১ আগস্ট ২০০৫(২০০৫-০৮-০১) (৮৪ বছর) ১৩ জুন ১৯৮২ ১ আগস্ট ২০০৫ ইবনে সৌদ ও হাসা বিনতে আহমেদ আল সুদাইরির সন্তান আল সৌদ ফাহাদ বিন আবদুল আজিজ
আবদুল্লাহ
  • عبد الله
(১৯২৪-০৮-০১)১ আগস্ট ১৯২৪ – ২৩ জানুয়ারি ২০১৫(২০১৫-০১-২৩) (৯০ বছর) ১ আগস্ট ২০০৫ ২৩ জানুয়ারি ২০১৫ ইবনে সৌদ ও ফাহদা বিনতে আসি আল শুরাইমের সন্তান আল সৌদ আবদুল্লাহ বিন আবদুল আজিজ
সালমান
  • سلمان
(১৯৩৫-১২-৩১) ৩১ ডিসেম্বর ১৯৩৫ (বয়স ৮২) ২৩ জানুয়ারি ২০১৫ বর্তমান ইবনে সৌদ ও হাসা বিনতে আহমেদ আল সুদাইরির সন্তান আল সৌদ সালমান বিন আবদুল আজিজ

বর্তমান ভবিষ্যত-উত্তরাধিকারীগণ[সম্পাদনা]

সময়কাল[সম্পাদনা]

সালমান বিন আবদুল আজিজআবদুল্লাহ বিন আবদুল আজিজফাহাদ বিন আবদুল আজিজখালিদ বিন আবদুল আজিজফয়সাল বিন আবদুল আজিজসৌদ বিন আবদুল আজিজআবদুল আজিজ ইবনে সৌদ

রাজকীয় পতাকা[সম্পাদনা]

রাজকীয় পতাকায় সবুজ জমিনের উপর সাদা কালিতে তলোয়ার অঙ্কিত ও সুলুস লিপিতে শাহাদাহ্‌ لَا إِلٰهَ إِلَّا الله مُحَمَّدٌ رَسُولُ الله (আল্লাহ ছাড়া কোনো ইলাহ নেই, মুহাম্মদ (সা) তার রাসুল) লেখা রয়েছে। এর নিচের ডান কোণে সোনালি কালিতে সৌদি আরবের জাতীয় প্রতীক অঙ্কিত রয়েছে।

রাজকীয় পতাকা

আরও দেখুন[সম্পাদনা]

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. Kings of the World – Rich Living Monarchs and their Royal Residences
  2. Rabasa, Angel (২০০৪)। The Muslim world after 9/11। Rand Corporation। পৃষ্ঠা 164। আইএসবিএন 978-0-8330-3712-1