সের্গেই ব্রিন

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
সের্গেই ব্রিন
Sergey Brin cropped.jpg
জন্ম সের্গেই মিখাইলোভিচ ব্রিন
ইংরেজি: Sergey Mikhaylovich Brin
রুশ: Серге́й Миха́йлович Брин

(১৯৭৩-০৮-২১) আগস্ট ২১, ১৯৭৩ (বয়স ৪৩)
মস্কো, সাবেক সোভিয়েত ইউনিয়ন (বর্তমান রাশিয়া)
বাসস্থান লস অ্যালটোস, ক্যালির্ফোনিয়া, মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র
জাতীয়তা মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র মার্কিন
জাতিসত্তা রাশিয়ান ইহুদি
শিক্ষা প্রতিষ্ঠান ম্যারিল্যান্ড বিশ্ববিদ্যালয়, স্ট্যানফোর্ড বিশ্ববিদ্যালয়
পেশা কম্পিউটার প্রকৌশী, ইন্টারনেট উদ্যোক্তা
যে জন্য পরিচিত গুগল স্থপতি
মোট সম্পত্তি বৃদ্ধি ইউস$৩৮.২ বিলিয়ন (August 2016)[১]
দাম্পত্য সঙ্গী অ্যান ওজসিস্কি (২০০৭–১৫)[২][৩]
সন্তান
ওয়েবসাইট plus.google.com/+SergeyBrin
স্বাক্ষর
Sergey Brin google signature.svg

সের্গেই ব্রিন বা সের্গেই মিখাইলোভিচ ব্রিন (রুশ: Сергей Михайлович Брин; ইংরেজি ভাষায়: Sergey Mikhaylovich Brin; জন্ম: ২১শে অগাষ্ট, ১৯৭৩) একজন রুশ বংশোদ্ভুত মার্কিন কম্পিউটার প্রকৌশলীইন্টারনেট উদ্যোক্তা। তিনি সার্চ ইঞ্জিন গুগল এর অন্যতম প্রতিষ্ঠাতা।

জীবনী[সম্পাদনা]

সের্গেই ব্রিন ১৯৭৩ সালে সাবেক সোভিয়েত ইউনিয়নের মস্কোতে একটি ইহুদি পরিবারে জন্ম গ্রহণ করেন। তার পিতার নাম মাইকেল ব্রিন ও মাতার নাম ইউজেনিয়া ব্রিন। মাইকেল ব্রিন ম্যারিল্যান্ড বিশ্ববিদ্যালয় এর গণিতের শিক্ষক ও ইউজেনিয়া ব্রিন নাসার গোডার্ড খেয়াযান নিক্ষেপণ কেন্দ্র এর গবেষক। ব্রিন ছয় বছর বয়সে যুক্তরাষ্ট্র প্রবাসী হন।

চলচ্চিত্র[সম্পাদনা]

ফেসবুক তৈরির কাহিনি নিয়ে তৈরি ‘দ্য সোশ্যাল নেটওয়ার্ক’ চলচ্চিত্রটির কথা অনেকেরই নিশ্চয় মনে আছে। এবারে অনুসন্ধান সেবাদাতা গুগলকে নিয়ে নির্মিত হয়েছে চলচ্চিত্র ‘দ্য ইন্টার্নশিপ’। নানা হাস্যরসাত্মক উপাদান নিয়ে এগিয়ে যায় সিনেমার কাহিনী। একপর্যায়ে প্রকাশ পায় গুগলের মাহাত্ম্য। সিনেমায় তুলে ধরা হয় গুগল দফতরের কর্মীদের নানা সুবিধার বিষয়। প্রতিষ্ঠানটির নানা সেবার তথ্যও দেখানো হয়। দেখা যায়, গুগলের সহপ্রতিষ্ঠাতা সের্গেই ব্রিনের চরিত্রকে।

অর্জন[সম্পাদনা]

২০০৪ সালে এবিসি ওয়ার্ল্ড নিউজ সারজি ব্রিনকে 'পারসন অফ দি উইক' ঘোষণা করে। ২০০৫ সালে ব্রিন অন্যতম 'ইয়াং গ্লোবাল লিডার' হিসাবে মনোনীত হন। টেসলা মটরের অন্যতম কর্ণধার সারজী ব্রিন ইলেকট্রিক চালিত যানের জন্য কাজ করে যাচ্ছেন।

পড়াশোনা[সম্পাদনা]

ব্রিন ১৯৯০ সালে ম্যারিল্যান্ড বিশ্ববিদ্যালয়ে গণিত ও কম্পিউটার বিজ্ঞানে স্নাতক শ্রেণীতে ভর্তি হন। ১৯৯৩ সালে তিনি সম্মান ডিগ্রি অজর্ন করেন। তিনি উচ্চশিক্ষার জন্য স্ট্যানফোর্ড বিশ্ববিদ্যালয় এ কম্পিউটার বিজ্ঞানে ভর্তি হন। তিনি বর্তমানে স্ট্যানফোর্ড বিশ্ববিদ্যালয় থেকে কম্পিউটার বিজ্ঞানে পিএইচডি ডিগ্রি অর্জনে বিরতি গ্রহন করছেন।

ব্যাক্তিগত জীবন[সম্পাদনা]

সের্গেই ব্রিন ২০০৭ সালে এ্যানি ওজকিকির সাথে বিবাহ বন্ধনে আবদ্ধ হন। তাদের সংসারে দুটি সন্তান রয়েছে। বয়সের দিক থেকে তাদের দুজনের মধ্যে কোনো পার্থক্য নেই। স্ত্রী এ্যানি ওজকিকি বায়োটেক কোম্পানি টুয়েন্টি থ্রি এন্ড মি’প্রধান নির্বাহী হিসেবে কাজ করছেন। এ্যানি ওজকিকির গুগলের অ্যাডভার্টাইজিং বিভাগের সিনিয়র ভাইস প্রেসিডেন্ট সুসান ওজকিকির বোন হন।

বাহামাস শহরে তাদের বিয়ে হয়। সেটা সের্গেই ব্রিনের জীবনে একটি আলোচিত অধ্যায়। অ্যানি বায়োলজিতে অনার্স পাশ করেন। স্বাস্থ্য নিয়ে কাজ করতে আগ্রহী তিনি। তাই তারা দুজনে মিলে 'হিউম্যান জিনোম প্রজেক্ট' তৈরি করেন। সেটার জন্য ডাটাবেজ ও ইন্টারনেট ওয়েবসাইটও বানান।

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. "The World's Billionaires - #13 Sergey Brin"। Forbes। সংগৃহীত ২৩ মার্চ ২০১৬ 
  2. Mallon, Bridget (সেপ্টেম্বর ৪, ২০১৩)। "Google Co-Founder Confirms Separation"Huffington Post 
  3. Spargo, Chris (জুন ২৪, ২০১৫)। "Google's Sergey Brin Finalizes Divorce"Daily Mail