ল্যাকটোজ

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
টেমপ্লেট:Chembox SpecRotation
ল্যাকটোজ (দুধের শর্করা)
Beta-D-Lactose.svg
নামসমূহ
আইইউপিএসি নাম
β-D-galactopyranosyl-(1→4)-D-glucose
অন্যান্য নাম
Milk sugar
4-O-β-D-galactopyranosyl-D-glucose
শনাক্তকারী
ত্রিমাত্রিক মডেল (জেমল)
সিএইচইবিআই
সিএইচইএমবিএল
কেমস্পাইডার
ইসিএইচএ ইনফোকার্ড ১০০.০০০.৫০৯
ইসি-নম্বর 200-559-2
ইউএনআইআই
বৈশিষ্ট্য
C12H22O11
আণবিক ভর 342.30 g/mol
বর্ণ white solid
ঘনত্ব 1.525 g/cm3
গলনাঙ্ক ২০২.৮ °সে (৩৯৭.০ °ফা; ৪৭৫.৯ K)[১]
19.5 g/100 mL[১][২]
তাপ রসায়নবিদ্যা
দহনে প্রমান এনথ্যাল্পির পরিবর্তন ΔcHo298 5652 kJ/mol, 1351 kcal/mol, 16.5 kJ/g, 3.94 kcal/g
ঝুঁকি প্রবণতা
এনএফপিএ ৭০৪
Flammability code 0: Will not burn. E.g., waterHealth code 1: Exposure would cause irritation but only minor residual injury. E.g., turpentineReactivity code 0: Normally stable, even under fire exposure conditions, and is not reactive with water. E.g., liquid nitrogenSpecial hazards (white): no codeNFPA 704 four-colored diamond
0
1
0
ফ্ল্যাশ পয়েন্ট ৩৫৭.৮ °সে (৬৭৬.০ °ফা; ৬৩১.০ K)[৩]
সুনির্দিষ্টভাবে উল্লেখ করা ছাড়া, পদার্থসমূহের সকল তথ্য-উপাত্তসমূহ তাদের প্রমাণ অবস্থা (২৫ °সে (৭৭ °ফা), ১০০ kPa) অনুসারে দেওয়া হয়েছে।
N যাচাই করুন (এটি কি YesYN ?)
তথ্যছক তথ্যসূত্র

দুধ এবং দুগ্ধজাতীয় খাবারে ল্যাকটোজ নামক একটি উপাদান থাকে যা মূলত একটি শর্করা। [৪] ল্যাকটোজ একটি ডাইস্যাকারাইড বা দ্বিআণবিক শর্করা, কারন এক একটি ল্যাকটোজ দুটি অণু দ্বারা গঠিত- এক অণু গ্যালাকটোজ এবং এক অণু গ্লুকোজ। দুধের ২ থেকে ৪ শতাংশ শর্করা হল ল্যাকটোজ।[৫] এর আণবিক সঙ্কেত হল C12H22O11

পরিপাক/ হজম[সম্পাদনা]

ল্যাকটোজ হজম করার জন্য আমাদের শরীরে কাজ করে ল্যাকটেজ নামের এক ধরনের এনজাইম।

সহনীয়তা[সম্পাদনা]

কারো কারো ক্ষেত্রে জন্মগত ভাবে কিংবা বেশিদিন দুধ জাতীয় খাবার এড়িয়ে চললে দুধ এবং দুগ্ধজাতীয় খাবার পরিপাককারী ল্যাকটেজ এনজাইম তার কার্যক্ষমতা হারিয়ে ফেলে। প্রাণিজগতে মানুষেরাই হল একমাত্র ব্যতিক্রম যারা ল্যাকটোজ নামক শর্করার প্রতি সহ্যমাত্রা সামান্য কম (৫%-এরও কম) থাকা সত্ত্বেও শৈশবোত্তীর্ণ কালেও দুগ্ধপান করে থাকে।[৬] ল্যাকটোজ শর্করাটি পরিপাক করার জন্য প্রয়োজনীয় উৎসেচক ল্যাকটেজ জন্মের পর ক্ষুদ্রান্ত্রে সর্বোচ্চ পরিমাণে ক্ষরিত হয় এবং নিয়মিত দুগ্ধপান না হলে ক্রমশঃ এর ক্ষরণ হ্রাস পেতে থাকে।[৭] তখন দুধ এবং দুগ্ধজাতীয় খাবার খেলে নানা ধরনের এলার্র্জি জনিত শারীরিক সমস্যা দেখা দেয়। তবে কারো শরীর যদি আগে থেকেই ল্যাকটোজ সহ্য করতে না পারে তাহলে সরাসরি দুধের পরিবর্র্তে বিকল্প হিসেবে সয় মিল্ক (সয়াবিনের থেকে তৈরি দুধ) বা অ্যালমোন্ড মিল্ক (বাদামের দুধ) খাওয়া যেতে পারে।

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. [১]
  2. The solubility of lactose in water is 18.9049 g at 25 °C, 25.1484 g at 40 °C and 37.2149 g at 60 °C per 100 g solution. Its solubility in ethanol is 0.0111 g at 40 °C and 0.0270 g at 60 °C per 100 g solution.Machado, José J. B.; Coutinho, João A.; Macedo, Eugénia A. (২০০১), "Solid–liquid equilibrium of α-lactose in ethanol/water" (PDF), Fluid Phase Equilibria, 173 (1): 121–34, doi:10.1016/S0378-3812(00)00388-5 . ds
  3. Sigma Aldrich
  4. https://en.wikipedia.org/wiki/Lactose
  5. Carper, Steve। "The Really BIG List of Lactose Percentages"Lactose Intolerance Clearinghouse। সংগ্রহের তারিখ ৩০ জানুয়ারি ২০১৪ 
  6. Champe, Pamela (২০০৮)। "Introduction to Carbohydrates"। Lippincott's Illustrated Reviews: Biochemistry, 4th ed.। Baltimore: Lippincott Williams & Wilkins। পৃষ্ঠা 88। আইএসবিএন 9780781769600 
  7. McGee, Harold (২০০৪) [১৯৮৪]। "Milk and Dairy Products"। On Food and Cooking: The Science and Lore of the Kitchen (2nd সংস্করণ)। New York: Scribner। পৃষ্ঠা 7–67। আইএসবিএন 978-0684800011 

বহিঃসংযোগ[সম্পাদনা]