লালগোলা

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
লালগোলা
গ্রাম
লালগোলা পশ্চিমবঙ্গ-এ অবস্থিত
লালগোলা
লালগোলা
ভারতের পশ্চিমবঙ্গে অবস্থান
স্থানাঙ্ক: ২৪°২৫′ উত্তর ৮৮°১৫′ পূর্ব / ২৪.৪২° উত্তর ৮৮.২৫° পূর্ব / 24.42; 88.25স্থানাঙ্ক: ২৪°২৫′ উত্তর ৮৮°১৫′ পূর্ব / ২৪.৪২° উত্তর ৮৮.২৫° পূর্ব / 24.42; 88.25
দেশ ভারত
রাজ্যপশ্চিমবঙ্গ
জেলামুর্শিদাবাদ
সরকার
 • ধরনপঞ্চায়েত
আয়তন
 • মোট১৩৪ কিমি (৫২ বর্গমাইল)
উচ্চতা২৩ মিটার (৭৫ ফুট)
জনসংখ্যা (২০০১)
 • মোট২,৬৭,৫৬৩
 • জনঘনত্ব২০০০/কিমি (৫২০০/বর্গমাইল)
ভাষা
 • সরকারিবাংলা, ইংরেজি
সময় অঞ্চলআইএসটি (ইউটিসি+০৫:৩০)
পিন৭৪২১৪৮
লিঙ্গ অনুপাত৯৫৫ /
লোকসভা আসনজঙ্গিপুর
বিধানসভা আসনলালগোলা
ওয়েবসাইটmurshidabad.gov.in

লালগোলা পশ্চিমবঙ্গের মুর্শিদাবাদ জেলার লালবাগ মহকুমার লালগোলা সমষ্টি উন্নয়ন ব্লকের একটি গ্রাম। এটি কলকাতার প্রায় ২২৫ কিলোমিটার (১৪০ মা) উত্তরে গঙ্গা বদ্বীপের মাথার কাছে অবস্থিত। এটি রানাঘাট-লালগোলা শাখা লাইনের একটি টার্মিনাল রেল স্টেশন। লালগোলা রেলওয়ে স্টেশন এবং কৃষ্ণপুর রেলস্টেশনের মধ্যকার দূরত্ব ভারতের দুটি রেলস্টেশনের (১.৭ কিলোমিটার) মধ্যে স্বল্পতম দূরত্ব। এটি একটি বর্ডার চেকপয়েন্টও তবে কিছু অজানা কারণে তা বর্তমানে কার্যক্ষম নয়।

সংক্ষিপ্ত বিবরণ[সম্পাদনা]

লালগোলা একটি ব্যবসায়িক অঞ্চল, যা বাংলাদেশ-ভারত সীমান্তের নিকটে অবস্থিত বহুসংখ্যক বড় এবং ছোট হ্রদ (দিঘি) দ্বারা পরিবেষ্টিত। ১৭৯৩ সালে ব্রিটিশ ইস্ট ইন্ডিয়া কোম্পানির দ্বারা নিযুক্ত জমিদার দ্বারা বাংলায় স্থায়ী বন্দোবস্তের পরে এখানে বসতি গড়ে ওঠে। এটি মুর্শিদাবাদের অন্যতম প্রধান ব্যবসায়ের কেন্দ্র ছিল। প্রধানত কৃষিজাত পণ্য সংগ্রহ করে দেশের বিভিন্ন কোণে রফতানি করা হত এখান থেকে। রাজবাড়ী নামে প্রাসাদের অবশিষ্টাংশ এখনও উপস্থিত রয়েছে। এর মধ্যে একটি প্রাসাদে লালগোলা ওপেন এয়ার কারেকশনাল হোম প্রতিষ্ঠিত হয়। এটি পশ্চিমবঙ্গে একমাত্র মুক্ত বায়ু সংশোধনযোগ্য বাড়ি, যা ১৯৮৬ সাল থেকে এখানে চলে। লালগোলা প্রাসাদটি মহারাজা যোগেন্দ্র নারায়ণ রায় সরকারকে উপহার দিয়েছিলেন।

ভূগোল[সম্পাদনা]

লালগোলার অবস্থান ২৪°২৫′ উত্তর ৮৮°১৫′ পূর্ব / ২৪.৪২° উত্তর ৮৮.২৫° পূর্ব / 24.42; 88.25[১] এটি পদ্মা নদীর নিকটে অবস্থিত, যা গঙ্গার প্রধান শাখা এবং এই অঞ্চলে ভারত এবং বাংলাদেশের সীমানা গঠন করে; এইভাবে উত্তর ও পূর্বে এই শহরটি সীমাবদ্ধ। এই এলাকার গড় উচ্চতা প্রায় ২৩ মিটার (৭৫ ফু)।

লালগোলার জলবায়ু পশ্চিমবঙ্গের বাকী অংশগুলির মতো। গ্রীষ্মের সময় সর্বাধিক তাপমাত্রা প্রায় ৪৫ °সে (১১৩ °ফা); শীতের সময় সর্বনিম্ন ৮-১০ ডিগ্রী সে।

সীমান্ত চৌকি[সম্পাদনা]

লালগোলা বাংলাদেশ-ভারত সীমান্তের একটি সীমান্ত চৌকি[২][৩]

থানা[সম্পাদনা]

লালগোলা থানায় এখতিয়ার রয়েছে লালাগোলা সমষ্টি উন্নয়ন ব্লক।[৪]

সমষ্টি উন্নয়ন ব্লকের সদরদপ্তর[সম্পাদনা]

লালগোলা সমষ্টি উন্নয়ন ব্লকের সদর দফতর লালগোলাতে অবস্থিত।[৫]

বাণিজ্য ও স্বাস্থ্যসেবা[সম্পাদনা]

খামার পণ্যগুলির একটি বাণিজ্য শহর এবং পরিবহন কেন্দ্রের জন্য লালগোলায় প্রতিদিন আশেপাশের গ্রাম থেকে কয়েক শতাধিক লোক আসেন।

শহরে একটি হাসপাতাল রয়েছে, যা কৃষ্ণপুর প্রাথমিক স্বাস্থ্য কেন্দ্র নামে পরিচিত। এখানে স্থানীয় এবং পরিদর্শকসহ বেশ কয়েকজন চিকিৎসক পরামর্শের জন্য উপলব্ধ। স্থানীয় স্বেচ্ছাসেবী সংগঠন লালগোলা সঞ্জীবন রক্ত-সংগ্রহের মতো স্বাস্থ্য সম্পর্কিত ক্ষেত্রে কাজ করে।

জনসংখ্যার উপাত্ত[সম্পাদনা]

ভারতের ২০১১ সালের আদমশুমারি অনুসারে লালগোলার মোট জনসংখ্যা হল ৩১,৬৯৮ জন, যার মধ্যে ১৬,১৭৭ (৫১%) পুরুষ এবং ১৫,৫৫১ (৪৯%) জন মহিলা ছিলেন। ৬ বছরের কম বয়স্কের সংখ্যা ছিল ৪,২৯০। লালগোলায় মোট সাক্ষরতার সংখ্যা ছিল ১৯,৭৯৭ (৬ বছরের বেশি বয়স্কের সংখ্যার ৭২.২৩%)।[৬]

উৎসব[সম্পাদনা]

প্রায় সমস্ত বড় এবং ছোট হিন্দু ও মুসলিম উৎসব এখানে পালন করা হয়।

মূল উৎসবগুলির মধ্যে একটি হ'ল দুর্গা পূজা। এই সময়ে পুরো শহর জুড়ে প্যান্ডেলগুলি (আনুষ্ঠানিক কাঠামো) নির্মিত হয়।

মুসলিম ঈদুল ফিতরঈদুল আজহাও এখানে উদযাপিত হয়। ১৯৮৬ সালের পর থেকে প্রতি জানুয়ারিতে স্থানীয় ফুলের প্রদর্শনীসহ বেশ কয়েকটি স্থানীয় উৎসব অনুষ্ঠিত হয়। স্থানীয় স্বেচ্ছাসেবী সংস্থা কর্তৃক আয়োজিত লালগোলা চ্যালেঞ্জ কাপ নামে একটি স্থানীয় ফুটবল প্রতিযোগিতাও অনুষ্ঠিত হয় শহরে।

শিক্ষা[সম্পাদনা]

লালগোলা কলেজ ২০০৬ সালে প্রতিষ্ঠিত হয়েছিল এবং ২০০৭-০৮ শিক্ষাবর্ষে কল্যাণী বিশ্ববিদ্যালয়ের অধীনে কোর্স প্রদান শুরু করে।

আরো দেখুন[সম্পাদনা]

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. Falling Rain Genomics, Inc - Lalgola
  2. "Bangladesh - Getting there and around"। Lonely Planet। সংগ্রহের তারিখ ২০১৩-০৩-০৬ 
  3. "Notification No. 63/94-Cus. (N.T.) dtd 21/11/1994 with amendments - Land Customs Stations and Routes for import and export of goods by land or inland water ways"। ২০১২-০১-২৮ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২০১৩-০৩-০৬ 
  4. "District Statistical Handbook 2014 Murshidabad"Table 2.1। Department of Statistics and Programme Implementation, Government of West Bengal। ২৯ জুলাই ২০১৭ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ১৭ মে ২০১৭ 
  5. "District Census Handbook: Murshidabad, Series 20 Part XII A" (PDF)Map of Murshidabad with CD Block HQs and Police Stations (on the fourth page).। Directorate of Census Operations, West Bengal, 2011। সংগ্রহের তারিখ ২৭ আগস্ট ২০১৭ 
  6. "C.D. Block Wise Primary Census Abstract Data(PCA)"West Bengal – District-wise CD Blocks। Registrar General and Census Commissioner, India। সংগ্রহের তারিখ ২৭ আগস্ট ২০১৭