মেলিবগো মলফি

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
মেলিবগো মলফি
Malebogo Molefhe (cropped).jpg
২০১৭ পুরস্কার বিতরণী
জন্ম১৯৮০ খ্রিস্টাব্দ
জাতীয়তাবতসোয়ানা

মেলিবগো মলফি (জন্মগ্রহণ করেন ১৯৮০ সাল) একজন বতসোয়ানা বাস্কেটবল খেলোয়াড় যিনি আট বার গুলি বিদ্ধ হবার পর লিঙ্গ ভিত্তিক সহিংসতার বিরুদ্ধে একজন সক্রিয় কর্মী হয়ে উঠেছিলেন। ২০১৭ সালে তিনি আন্তর্জাতিক সাহসী নারী পুরস্কার লাভ করেন।[তথ্যসূত্র প্রয়োজন]

জীবন[সম্পাদনা]

মলফি জন্মগ্রহণ করেন ১৯৮০ সালের দিকে।বাস্কেটবল খেলার মাধ্যমে দেশকে প্রতিনিধিত্ব করার জন্য তাকে নির্বাচিত করা হয়েছিল।

২০০৯ সালে তিনি তার প্রেমিকার দ্বারা আট বার গুলি বিদ্ধ হন যাকে একজন "হীনমন্য" হিসাবে বর্ণনা করা হয়। তাকে সুস্থ করা হয় কিন্তু তিনি একটি হুইলচেয়ার ব্যবহার করেন মেরুদন্ডে আঘাতের কারণে।[১][২]

মেলিবগো লিঙ্গ ভিত্তিক সহিংসতা (জিবিভি) এবং বতসোয়া রেডিও গার্হস্থ্য নির্যাতনের জন্য একজন আইনজীবিতে পরিণত হন। তিনি বতসোয়ানাতে রাজ্য ও বেসরকারি সংস্থার সাথে ওয়ার্কশপ পরিচালনা করেছেন এবং প্রশিক্ষণের ব্যবস্থা করেছেন। তিনি উপলব্ধি করেন যে সাংস্কৃতিক বিভিন্ন দিকগুলি যা জিবিভি কে নিরুৎসাহিত করতে ব্যর্থ হয়। সে স্বেচ্ছাসেবকদের পরিবর্তনের প্রয়োজন উদ্দেশ্যে সচেতনতা বৃদ্ধি করতে কাজ করেন।[২]

মেলিবগো অল্পবয়সী মেয়েদেরকে স্ব-স্বীকৃতির বিষয়ে শিক্ষা দেন যাতে তারা যৌন নিপীড়ন এবং অন্যান্য ধরনের পারিবারিক নির্যাতনের বিরুদ্ধে নিজেদের কে প্রতিরোধ করতে পারে। তিনি এবং বতসোয়া শিক্ষা মন্ত্রণালয় বাড়িতে শিশুদের জন্য একটি জিবিভি কার্যক্রম চালু করেন যাতে করে জিবিভি সম্পর্কে তারা জানতে পারে। মেলিবগো সাধারণভাবে নারীদের ক্রীড়া বিষয়ে উৎসাহিত করেন।[২]

২৯ মার্চ,২০১৭ তারিখে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের স্টেট ডিপার্টমেন্ট কর্তৃক তিনি স্বীকৃত হন এবং আন্তর্জাতিক সাহসী নারী পুরস্কার লাভ করেন।[৩]

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. "Shot By Her Boyfriend And Now Using A Wheelchair, She Found A 'New Me'"NPR.org (ইংরেজি ভাষায়)। সংগ্রহের তারিখ ২০১৭-০৮-১৫ 
  2. "Biographies of the Finalists for the 2017 International Women of Courage Awards"www.state.gov (ইংরেজি ভাষায়)। সংগ্রহের তারিখ ২০১৭-০৮-১৫ 
  3. "First Lady Melania Trump Poses for a Photo With International Women of Courage Awardee Malebogo Molefhe of Botswana"Flickr (ইংরেজি ভাষায়)। সংগ্রহের তারিখ ২০১৭-০৮-১৫