মারিও মাঞ্জুকিচ

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
মারিও মাঞ্জুকিচ
Mario Mandžukić 2018.jpg
ব্যক্তিগত তথ্য
পূর্ণ নাম মারিও মাঞ্জুকিচ[১]
জন্ম (1986-05-21) ২১ মে ১৯৮৬ (বয়স ৩৫)
জন্ম স্থান

স্লভন্সকি ব্রড, এসআর ক্রোয়েশিয়া,

এসএফআর যুগোস্লাভিয়া
উচ্চতা ১.৮৭ মিটার (৬ ফুট   ইঞ্চি)[২]
মাঠে অবস্থান ফরোয়ার্ড
ক্লাবের তথ্য
বর্তমান ক্লাব
জুভেন্টাস
জার্সি নম্বর ১৭
যুব পর্যায়
১৯৯২-১৯৯৬ TSF Ditzingen
১৯৯৬-২০০৩ Marsonia
২০০৩-২০০৪ Željezničar Slavonski Brod
জ্যেষ্ঠ পর্যায়*
বছর দল ম্যাচ (গোল)
২০০৪–২০০৫ Marsonia ২৩ (১৪)
২০০৫–২০০৭ NK Zagreb ৫১ (১৪)
২০০৭–২০১০ ডায়নামো জাগ্রেব ৮১ (৪২)
২০১০-২০১২ VfL Wolfsburg ৫৬ (২০)
২০১২–২০১৪ বায়ার্ন মিউনিখ ৫৪ (৩৩)
২০১৪–২০১৫ আতলেতিকো মাদ্রিদ ২৮ (১২)
২০১৫– জুভেন্টাস ১১৪ (৩০)
জাতীয় দল
২০০৪–২০০৫ ক্রোয়েশিয়া অনূর্ধ্ব-১৯ ১০ (৩)
২০০৭ ক্রোয়েশিয়া অনূর্ধ্ব-২০ (১)
২০০৬-২০০৮ ক্রোয়েশিয়া অনূর্ধ্ব-২১ (১)
২০০৭-২০১৮ ক্রোয়েশিয়া ৮৯ (৩৩)
অর্জন ও সম্মাননা
Dinamo Zagreb
বিজয়ী Prva HNL 2008
বিজয়ী Croatian Cup 2008
বিজয়ী Prva HNL 2009
বিজয়ী Croatian Cup 2009
বিজয়ী Prva HNL 2010
Bayern Munich
বিজয়ী DFL-Supercup 2012
বিজয়ী Bundesliga 2013
বিজয়ী UEFA Champions League 2013
বিজয়ী DFB-Pokal 2013
রানার-আপ DFL-Supercup 2013
বিজয়ী UEFA Super Cup 2013
বিজয়ী FIFA Club World Cup 2013
বিজয়ী Bundesliga 2014
বিজয়ী DFB-Pokal 2014
Atlético Madrid
বিজয়ী Supercopa de España 2014
Juventus
বিজয়ী Supercoppa Italiana 2015
* শুধুমাত্র ঘরোয়া লীগে ক্লাবের হয়ে ম্যাচ ও গোলসংখ্যা গণনা করা হয়েছে এবং ১৯শে মে ২০১৮ তারিখ অনুযায়ী সকল তথ্য সঠিক।
‡ জাতীয় দলের হয়ে ম্যাচ ও গোলসংখ্যা ১৫ই জুলাই ২০১৮ তারিখ অনুযায়ী সঠিক।

মারিও মাঞ্জুকিচ (ক্রোয়েশীয় উচ্চারণ: [mâːrio mǎndʒukitɕ];[৩] জন্ম: ২১ মে ১৯৮৬) একজন ক্রোয়েশীয় ফুটবলার। তিনি স্ট্রাইকার হিসাবে ক্রোয়েশিয়া জাতীয় দল এবং জুভেন্টাস ফুটবল ক্লাব খেলে থাকেন।[৪]

আন্তর্জাতিক পর্যায়ে ২০০৭ সালের নভেম্বরে ক্রোয়েশিয়া জাতীয় দলের হয়ে মাঞ্জুকিচের অভিষেক হয়। পরবর্তীতে তিনি চারটি বড় আসরে অংশগ্রহণ করেন, যেগুলো হল উয়েফা ইউরো ২০১২, ২০১৪ ফিফা বিশ্বকাপ, উয়েফা ইউরো ২০১৬২০১৮ ফিফা বিশ্বকাপ। ৮৮টি উপস্থিতি হতে ৩২ গোল করা মাঞ্জুকিচ ডেভর সুকারের পর ক্রোয়েশিয়া দলের দ্বিতীয় সর্বোচ্চ গোলদাতা। ২০১২ ও ২০১৩ সালে তিনি বর্ষসেরা ক্রোয়েশীয় ফুটবলারের খ্যাতি অর্জন করেন।

ক্লাব কর্মজীবন[সম্পাদনা]

২০১৪ সালে আতলেতিকো মাদ্রিদের হয়ে খেলছেন মাঞ্জুকিচ।

আন্তর্জাতিক কর্মজীবন[সম্পাদনা]

২০১৮ ফিফা বিশ্বকাপ[সম্পাদনা]

২০১৮ সালের ৪ঠা জুন মাঞ্জুকিচ ২০১৮ ফিফা বিশ্বকাপের জন্য ঘোষিত ২৩ সদস্য বিশিষ্ট ক্রোয়েশিয়া দলে ডাক পান। দলের হয়ে দ্বিতীয় রাউন্ডে ডেনমার্কের বিপক্ষে তিনি ৪ মিনিটে সমতা আনয়নকারী গোল করেন, এবং তার দল অতিরিক্ত সময়ে ১-১ গোলে ড্র করে পেনাল্টি শুট-আউটে ৩-২ গোলে জয় পায়।[৫] কোয়ার্টার ফাইনালে স্বাগতিক রাশিয়ার বিপক্ষে তার ক্রস থেকে হেডে গোল করে তার সতীর্থ আন্দ্রেই ক্রামারিচকে খেলায় সমতা আনেন। ৯০ মিনিটের পর অতিরিক্ত সময়ে ২-২ গোলে ড্র হওয়ার খেলাটি ট্রাইব্রেকারে গড়ায় এবং ক্রোয়েশিয়া পেনাল্টি শুট-আউটে ৪-৩ গোলে জয় পায়।[৬] ১১ই জুলাই সেমি ফাইনালে ইংল্যান্ডের বিপক্ষে ১-১ গোলে সমতায় থাকা ক্রোয়েশিয়াকে অতিরিক্ত সময়ে ১০৯ মিনিটে গোল করে এগিয়ে নিয়ে যান এবং তার দল তাদের ইতিহাসের প্রথমবারের মত বিশ্বকাপের ফাইনালে উঠে।[৭][৮] ১৫ই জুলাই ফ্রান্সের বিপক্ষে ফাইনালে তিনি প্রথম খেলোয়াড় হিসেবে বিশ্বকাপের ফাইনালে আত্মঘাতি গোল করেন। অঁতোয়ান গ্রিয়েজমানের করা ফ্রি-কিকটিকে হেড দিয়ে সরাতে গিয়ে নিজেদের জালে প্রেরণ করেন এবং ফ্রান্স ১-০ গোলে এগিয়ে যায়। তিনি পরবর্তীতে ফরাসি গোলকিপার উগো লরিসের একটি ভুলের সুযোগ নিয়ে তার দলের হয়ে দ্বিতীয় গোল করেন, কিন্তু তারা ৪-২ গোলে পরাজিত হয়। এই গোলের সুবাদে তিনি বিশ্বকাপের ইতিহাসে দ্বিতীয় খেলোয়াড় হিসেবে একই খেলায় দুই পক্ষের হয়েই গোল করেন (প্রথমবার এরকম করেছিলেন নেদারল্যান্ডসের আর্নি ব্রান্ডস ১৯৭৮ ফিফা বিশ্বকাপে ইতালির বিপক্ষে) এবং প্রথম খেলোয়াড় হিসেবে বিশ্বকাপের ফাইনালে দুই পক্ষের হয়েই গোল করেন।[৯][১০]

কর্মজীবন পরিসংখ্যান[সম্পাদনা]

আন্তর্জাতিক[সম্পাদনা]

১৫ই জুলাই ২০১৮ পর্যন্ত হালনাগাদকৃত।[১১]
জাতীয় দল বছর উপস্থিতি গোল
ক্রোয়েশিয়া ২০০৭
২০০৮
২০০৯
২০১০
২০১১
২০১২ ১১
২০১৩ ১০
২০১৪ ১০
২০১৫
২০১৬ ১১
২০১৭
২০১৮
সর্বমোট ৮৯ ৩৩

সম্মাননা[সম্পাদনা]

ক্রোয়েশিয়া

আরও দেখুন[সম্পাদনা]

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. "FIFA Club World Cup Morocco 2013: List of Players" (PDF)। FIFA। ৭ ডিসেম্বর ২০১৩। পৃষ্ঠা 5। সংগ্রহের তারিখ ৭ ডিসেম্বর ২০১৩ 
  2. "Mario Mandžukić profile"। clubatleticodemadrid.com। ২৭ মার্চ ২০১৬ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২৯ ডিসেম্বর ২০১৪ 
  3. "Màrija"Hrvatski jezični portal (সার্বো-ক্রোয়েশিয় ভাষায়)। সংগ্রহের তারিখ ২ জুলাই ২০১৮Mȃrio 
  4. Nyari, Cristian (৯ এপ্রিল ২০১৩)। "Performance Analysis – Mario Mandzukic's Importance to Bayern Munich"Bundesliga Fanatic। ১ জুলাই ২০১৪ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ১১ জুলাই ২০১৪ 
  5. "অতিরিক্ত সময়ে ক্রোয়েশিয়া-ডেনমার্ক ম্যাচ"বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম। ২ জুলাই ২০১৮। সংগ্রহের তারিখ ১২ জুলাই ২০১৮ 
  6. "টাইব্রেকারে রাশিয়া-ক্রোয়েশিয়া ম্যাচ"বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম। ৮ জুলাই ২০১৮। সংগ্রহের তারিখ ১২ জুলাই ২০১৮ 
  7. "ইংলিশদের থামিয়ে প্রথমবারের মতো স্বপ্নের ফাইনালে ক্রোয়েশিয়া"দ্য ডেইলি স্টার। ১২ জুলাই ২০১৮। সংগ্রহের তারিখ ১২ জুলাই ২০১৮ 
  8. "ইংলিশদের স্বপ্নভঙ্গ, স্বপ্নের ফাইনালে ক্রোয়েশিয়া"বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম। ১২ জুলাই ২০১৮। সংগ্রহের তারিখ ১২ জুলাই ২০১৮ 
  9. "মানজুকিচের আত্মঘাতি গোল ইতিহাস গড়ল"একুশে টেলিভিশন। ১৫ জুলাই ২০১৮। সংগ্রহের তারিখ ১৬ জুলাই ২০১৮ 
  10. সোহাগ, আনোয়ার হোসেন (১৫ জুলাই ২০১৮)। "মানজুকিচই প্রথম…"প্রিয়.কম (ইংরেজি ভাষায়)। সংগ্রহের তারিখ ১৬ জুলাই ২০১৮ 
  11. ন্যাশনাল-ফুটবল-টিমস.কমে Mario Mandžukić (ইংরেজি)

বহিঃসংযোগ[সম্পাদনা]