মাউরো ইকার্দি

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
মাউরো ইকার্দি
MauroIcardi.jpg
২০১২ সালে ইকার্দি
ব্যক্তিগত তথ্য
পূর্ণ নাম মাউরো এমানুয়েল ইকার্দি রিভেরিও
জন্ম (1993-02-19) ১৯ ফেব্রুয়ারি ১৯৯৩ (বয়স ২৬)
জন্ম স্থান রোজারিও, আর্জেন্টিনা
উচ্চতা ১.৮১ মিটার (৫ ফুট ১১  ইঞ্চি)
মাঠে অবস্থান স্ট্রাইকার
ক্লাবের তথ্য
বর্তমান ক্লাব ইন্টার মিলান
জার্সি নম্বর
যুব পর্যায়ের খেলোয়াড়ী জীবন
২০০২–২০০৮ ভেসিন্দারিও
২০০৮–২০১১ বার্সেলোনা
২০১১সাম্পদোরিয়া (ধার)
২০১১–২০১২ সাম্পদোরিয়া
জ্যেষ্ঠ পর্যায়ের খেলোয়াড়ী জীবন*
বছর দল উপস্থিতি (গোল)
২০১২–২০১৩ সাম্পদোরিয়া ৩৩ (১১)
২০১৩– ইন্টার মিলান ২৪ (১২)
জাতীয় দল
২০১২–২০১৩ আর্জেন্টিনা অনূর্ধ্ব ২০ (৩)
২০১৩– আর্জেন্টিনা (0)
  • পেশাদারী ক্লাবের উপস্থিতি ও গোলসংখ্যা শুধুমাত্র ঘরোয়া লিগের জন্য গণনা করা হয়েছে এবং ২৬ অক্টোবর ২০১৬ তারিখ অনুযায়ী সঠিক।

† উপস্থিতি(গোল সংখ্যা)।

‡ জাতীয় দলের হয়ে খেলার সংখ্যা এবং গোল ১৫ অক্টোবর ২০১৩ তারিখ অনুযায়ী সঠিক।

মাউরো এমানুয়েল ইকার্দি রিভেরিও (জন্ম ১৯ ফেব্রুয়ারি ১৯৯৩) একজন আর্জেন্টিনীয় পেশাদার ফুটবলার সিরি এ ক্লাব ইন্টার মিলানের হয়ে স্ট্রাইকার হিসেবে খেলেন।

ক্লাব কর্মজীবন[সম্পাদনা]

প্রারম্ভিক কর্মজীবন[সম্পাদনা]

ইকার্দি আর্জেন্টিনার, রোজরিওতে জন্মগ্রহন করেন। তার বয়স যখন ছয় তখন তার পরিবার স্পেনের কানারি আইল্যান্ডে চলে যায়। তিনি তার কর্মজীবন শুরু করেন ভেসিন্দারিওর হয়ে। যুব দলগুলোতে খেলার সময় তিনি ৫০০ এরও অধিক গোল করেন।২০০৮ সালে তাকে দলে ভেড়ানোর প্রতিযোগিতায় নেমে পড়ে বার্সেলোনা, রিয়াল মাদ্রিদ, ভ্যালেন্সিয়া, সেভিয়া, ইস্পানিওল, দেপোর্তিভো লা করুনিয়া, আর্সেনাল এবং লিভারপুল। এই প্রতিযোগিতায় জয় পায় বার্সেলোনা এবং তারা ইকার্দির সাথে ২০১৩ সাল পর্যন্ত চুক্তি করেন।[১]

বার্সেলোনা[সম্পাদনা]

২০০৮–০৯ মৌসুমের শুরুতে বার্সেলোনায় যোগ দেন ইকার্দি। সেখানে তিনি অনূর্ধ্ব ১৭ দলের হয়ে খেলতে শুরু করেন। পরের মৌসুমে অনূর্ধ্ব ১৯ দলে তিনি সুযোগ পান। ২০১১ সালের জানুয়ারিতে, ধার হিসেবে তিনি স্যাম্পদোরিয়ায় যোগ দেন। বার্সেলোনা ত্যাগ সম্পর্কে তিনি বলেন যে এটি কোন খারাপ সিদ্ধান্ত ছিলন, এবং তিনি বিশ্বাস করতেন যে তিনি ভালো করবেন।[২]

স্যাম্পদোরিয়া[সম্পাদনা]

২০১১ সালের ১১ জানুয়ারি, স্যাম্পদোরিয়া ইকার্দির সাথে ধারে মৌসুমের শেষ পর্যন্ত চুক্তির খবর নিশ্চিত করে।[৩][৪] ছয় মাস ধারে স্যাম্পদোরিয়ার প্রিমাভেরা দলের হয়ে তিনি ১৯ খেলায় ১৩ গোল করেন। ২০১১ সালের জুলাইয়ে, স্যাম্পদরিয়া তার সাথে তিন বছরের চুক্তি করে। ৪০০,০০০ ইউরোর বিনিময়ে তারা তাকে পুরোপুরি ভাবে কিনে নেয়।[৪][৫]

২০১২ সালের ১২ মে, ইয়ুভে স্তাবিয়ার বিপক্ষে তার অভিষেক হয়, খেলার ৭৫তম মিনিটে ব্রুনো ফর্নারোলির বদলি হিসেবে তিনি মাঠে নামেন। দশ মিনিট পরেই ইকার্দি তার কর্মজীবনের প্রথম পেশাদার গোল করেন এবং স্যাম্পদোরিয়া ২–১ গোলের ব্যবধানে জয় লাভ করে।[৬]

২০১৩ সালের ৬ জানুয়ারি, জুভেন্টাসের বিপক্ষে তিনি জোড়া গোল করেন এবং দলকে ২–১ গোলের ব্যবধানে জয় এনে দেন।[৭] ২০১৩ সালের ২৭ জানুয়ারি, পেসকারার বিপক্ষে তিনি চার গোল করেন এবং দলকে ৬–০ গোলের ব্যবধানে জয় এনে দেন, এতে স্যাম্পদোরিয়ার অবনমন শঙ্কা দূর হয়।[৮]

ইন্টার মিলান[সম্পাদনা]

২০১৩ সালের এপ্রিলে, ঘোষণা করা হয় যে ২০১৩–১৪ মৌসুম শুরুর আগেই ইন্টার মিলানে যোগ দেবেন।[৯] পরবর্তীতে স্যাম্পদোরিয়া কর্তৃপক্ষও এ ব্যাপারে নিশ্চিত করেন।[১০] ইকার্দি ইন্টারের হয়ে তার প্রথম গোল করেন প্রাক-মৌসুম প্রীতি খেলায় জার্মান ক্লাব হ্যামবার্গার এসভির বিপক্ষে।[১১][১২] ১৪ সেপ্টেম্বর, ইন্টারের হয়ে ইকার্দি তার প্রথম লীগ গোল করেন। জুভেন্টাসের বিপক্ষে খেলার ৭৩তম মিনিটে বদলি হিসেবে নেমে তিনি দলকে ১–০ গোলে এগিয়ে নিয়ে যান। অবশ্য, শেষ পর্যন্ত খেলাটি ১–১ গোলে ড্র হয়।[১৩]

আন্তর্জাতিক কর্মজীবন[সম্পাদনা]

২০১২ সালের আগস্টে, আর্জেন্টিনা অনূর্ধ্ব ২০ দলের হয়ে জার্মানির বিপক্ষে ইকার্দির অভিষেক হয়।[১৪]

২০১৩ সালের ফেব্রুয়ারিতে, আর্জেন্টিনার জ্যেষ্ঠ দলের হয়ে খেলার ইচ্ছা প্রকাশ করেন ইকার্দি। তিনি বলেন, “আমি আর্জেন্টিনীয়, আমি আর্জেন্টিনীয় অনুভব করি এবং আমি সবসময় আমার জাতীয় দলের শার্ট গায়ে দেওয়ার স্বপ্ন দেখেছি, আমার সর্বোচ্চটি দেওয়ার জন্য।”[১৫]

২০১৩ সালের ১৫ অক্টোবর, ২০১৪ বিশ্বকাপ বাছাইপর্বের উরুগুয়ের বিপক্ষে খেলায় আর্জেন্টিনার জ্যেষ্ঠ দলের হয়ে তিনি প্রথম মাঠে নামেন।[১৬]

কর্মজীবনের পরিসংখ্যান[সম্পাদনা]

১৪ সেপ্টেম্বর ২০১৪ অনুসারে।

ক্লাব মৌসুম লীগ কাপ ইউরোপ মোট
উপস্থিতি গোল উপস্থিতি গোল উপস্থিতি গোল উপস্থিতি গোল
স্যাম্পদোরিয়া ২০১১–১২
২০১২–১৩ ৩১ ১০ ৩১ ১০
মোট ৩৩ ১১ ৩৩ ১১
ইন্টার মিলান ২০১৩–১৪ ২২ ২৩
২০১৪–১৫
মোট ২৪ ১২ ২৭ ১৫
কর্মজীবনে সর্বমোট ৫৭ ২৩ ৬০ ২৬

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. "Barcelona compró a un argentino de 14 años" [১৪ বছর বয়সী এক আর্জেন্টিনীয়কে ক্রয় করল বার্সেলোনা]। Clarín (স্পেনীয় ভাষায়)। ১৭ জুলাই ২০০৮। ৩১ অক্টোবর ২০১৩ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ৩১ অক্টোবর ২০১৩ 
  2. Caferoglu, Livio (১০ জুন ২০১৩)। "Inter-bound Icardi: I don't regret leaving Barcelona"। Goal.com। সংগ্রহের তারিখ ৩১ সেপ্টেম্বর ২০১৩  এখানে তারিখের মান পরীক্ষা করুন: |সংগ্রহের-তারিখ= (সাহায্য)
  3. D'Andrea, Rick (১১ জানুয়ারি ২০১১)। "Sampdoria Sporting Director Doriano Tosi Reveals Mauro Icardi Will Arrive Soon"Goal.com। সংগ্রহের তারিখ ৩১ অক্টোবর ২০১৩ 
  4. Soria, Miki (১৬ জুলাই ২০১১)। "Mauro Icardi seguirá en la Sampdoria"Sport (স্পেনীয় ভাষায়)। 
  5. "Sampdoria use the option to buy Mauro Icardi"Total Barça। ১৭ জুলাই ২০১১। ৯ সেপ্টেম্বর ২০১১ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ৩১ অক্টোবর ২০১৩ 
  6. "Mauro Icardi debuta y marca con el primer equipo de la Sampdoria"Air Futbol (স্পেনীয় ভাষায়)। ১৫ মে ২০১২। ১১ মে ২০১৩ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ১ নভেম্বর ২০১৩ 
  7. Bandini, Paolo (৭ জানুয়ারি ২০১৩)। "Sampdoria's Mauro Icardi comes of age to stun Juventus in week of upsets"দ্য গার্ডিয়ান। সংগ্রহের তারিখ ১ নভেম্বর ২০১৩ 
  8. "Sampdoria 6–0 US Pescara"ইএসপিএনসকারনেট। ২৭ জানুয়ারি ২০১৩। সংগ্রহের তারিখ ১ নভেম্বর ২০১৩ [স্থায়ীভাবে অকার্যকর সংযোগ]
  9. "Inter Milan announce swoop for quintet"। ইএসপিএনসকারনেট। ২৫ এপ্রিল ২০১৩। সংগ্রহের তারিখ ১ নভেম্বর ২০১৩ 
  10. "Sampdoria confirm Mauro Icardi will join Inter Milan this summer"। স্কাই স্পোর্টস। ১৪ মে ২০১৩। সংগ্রহের তারিখ ১ নভেম্বর ২০১৩ 
  11. "Mauro Icardi delighted to score first Inter Milan goal"। Tribal Football। ২৮ জুলাই ২০১৩। সংগ্রহের তারিখ ১ নভেম্বর ২০১৩ 
  12. "Icardi delighted with first Inter goal"। এফ.সি. ইন্তারনাজিওনালে মিলানো। ২৭ জুলাই ২০১৩। সংগ্রহের তারিখ ১ নভেম্বর ২০১৩ 
  13. "Inter 1-1 Juventus: Spoils shared in tense Derby d'Italia"Goal.com। ১৪ সেপ্টেম্বর ২০১৩। সংগ্রহের তারিখ ১ নভেম্বর ২০১৩ 
  14. "9 Mauro Icardi"transfermarkt। সংগ্রহের তারিখ ১ নভেম্বর ২০১৩ 
  15. "Striker Icardi: I want to play for Argentina"ইএসপিএনসকারনেট। ২০ ফেব্রুয়ারি ২০১৩। সংগ্রহের তারিখ ১ নভেম্বর ২০১৩ 
  16. "Icardi makes Argentina debut, Uruguay reach play-offs"এফ.সি. ইন্তারন্যাজিওনালে মিলানো। ১৬ অক্টোবর ২০১৩। সংগ্রহের তারিখ ১ নভেম্বর ২০১৩ 

বহিঃসংযোগ[সম্পাদনা]