তালুকদার মোহাম্মদ ইউনুস

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
তালুকদার মোঃ ইউনুস
বরিশাল-২ আসন আসনের
সংসদ সদস্য
কাজের মেয়াদ
৫ জানুয়ারি ২০১৪ – ৩০ ডিসেম্বর ২০১৮
পূর্বসূরীমনিরুল ইসলাম মনি
উত্তরসূরীশাহে আলম তালুকদার
সংখ্যাগরিষ্ঠবাংলাদেশ আওয়ামী লীগ
বরিশাল-১ আসন আসনের
সংসদ সদস্য
কাজের মেয়াদ
২৯ ডিসেম্বর ২০০৮ – ৫ জানুয়ারি ২০১৪
পূর্বসূরীজহির উদ্দিন স্বপন
উত্তরসূরীআবুল হাসনাত আবদুল্লাহ
সংখ্যাগরিষ্ঠবাংলাদেশ আওয়ামী লীগ
ব্যক্তিগত বিবরণ
জন্ম (1952-05-04) ৪ মে ১৯৫২ (বয়স ৬৮)
গৌরনদী বরিশাল
রাজনৈতিক দলবাংলাদেশ আওয়ামী লীগ
প্রাক্তন শিক্ষার্থীঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়
পেশারাজনীতিবিদ ও আইনজীবী

তালুকদার মোঃ ইউনুস (জন্ম ৪ মে ১৯৫২) বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের একজন রাজনীতিবিদ, আইনজীবী ও সাবেক সংসদ সদস্য। তিনি বরিশাল-১ আসন থেকে ২০০৮ সালের নবমবরিশাল-২ আসন থেকে ২০১৪ সালের দশম জাতীয় সংসদ নির্বাচনে বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের প্রার্থী হিসেবে সংসদ সদস্য নির্বাচিত হন।[১]

প্রারম্ভিক জীবন[সম্পাদনা]

ইউনুস ১৯৫২ সালের ৪ মে বরিশালের গৌরনদী উপজেলায় জন্মগ্রহণ করেন।[২] তার পিতার নাম মোঃ শহর আলী তালুকদার ও মাতার নাম হাজেরা বেগম। তিনি বরিশাল জিলা স্কুল থেকে মাধ্যমিক এবং বরিশাল মডেল স্কুল অ্যান্ড কলেজ থেকে উচ্চ মাধ্যমিক সম্পন্ন করেন। এরপর ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় থেকে আইনবিদ্যায় স্নাতক (এলএলবি) সম্পন্ন করে আইনকে পেশা হিসাবে বেছে নেন। শিক্ষার্থী থাকা অবস্থায় ইউনুস ছাত্ররাজনীতিতে যুক্ত হন। ১৯৭১ সালে বাংলাদেশের স্বাধীনতা যুদ্ধে অংশগ্রহণ করেন।[৩]

কর্মজীবন ও রাজনীতি[সম্পাদনা]

ইউনুস বাংলাদেশের সুপ্রিম কোর্টের একজন আইনজীবী। তিনি আওয়ামী লীগের বরিশাল জেলা শাখার সাধারণ সম্পাদক হিসেবে দায়িত্ব পালন করছেন।[৪] ২০০৮ সালের নবম জাতীয় সংসদ নির্বাচনে তিনি আওয়ামী লীগের মনোনয়নে বরিশাল-১ আসন থেকে নির্বাচনে অংশ নেন। এ নির্বাচনে তার নিকটতম বিএনপির প্রার্থী আবদুস সোবহানকে পরাজিত করে ৯৮,২৪৫ ভোট পেয়ে বিজয়ী হন।[৫] নবম জাতীয় সংসদে তিনি প্রাথমিক ও গণশিক্ষা মন্ত্রণালয় সম্পর্কিত স্থায়ী কমিটির একজন সদস্য ছিলেন।[৬]

২০১৪ সালের দশম জাতীয় সংসদ নির্বাচনে তিনি বরিশাল-২ আসন থেকে মনোনয়ন পান। এ নির্বাচনে তিনি জাতীয় পার্টির গোলাম কিবরিয়া টিপুকে পরাজিত করে ১,৩৪,৮৭৮ ভোট পেয়ে দ্বিতীয়বারেরমত সংসদ সদস্য নির্বাচিত হন।[৭] দশম জাতীয় সংসদের অষ্টম অধিবেশনে তাকেসহ পাঁচ জনকে প্যানেল স্পিকার মনোনীত করা হয়।[৪]

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. User, Super। "Constituency 120_10th_Bn"www.parliament.gov.bd। সংগ্রহের তারিখ ২০১৮-১১-২১ 
  2. "জনাব তালুকদার মোঃ ইউনুস"জাতীয় সংসদ। সংগ্রহের তারিখ ১৩ ডিসেম্বর ২০১৯ 
  3. "ফের নৌকার প্রার্থী হতে চান তালুকদার ইউনুস"সমকাল (ইংরেজি ভাষায়)। সংগ্রহের তারিখ ১৩ ডিসেম্বর ২০১৯ 
  4. "প্যানেল স্পিকার হওয়ায় এমপি ইউনুসকে অভিনন্দন"সমকাল (ইংরেজি ভাষায়)। সংগ্রহের তারিখ ১৩ ডিসেম্বর ২০১৯ 
  5. "বরিশাল-১"প্রথম আলো। সংগ্রহের তারিখ ১৩ ডিসেম্বর ২০১৯ 
  6. "সংসদীয় আসন ১১৯"জাতীয় সংসদ। সংগ্রহের তারিখ ১৩ ডিসেম্বর ২০১৯ 
  7. "বরিশাল-২"প্রথম আলো। সংগ্রহের তারিখ ১৩ ডিসেম্বর ২০১৯