ডক্টর স্ট্রেঞ্জ (২০১৬-এর চলচ্চিত্র)

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
ডক্টর স্ট্রেঞ্জ
পরিচালকস্কট ডেরিকসন
প্রযোজককেভিন ফাইগি
রচয়িতা
উৎসস্ট্যান লি কর্তৃক 
ডক্টর স্ট্রেঞ্জ
শ্রেষ্ঠাংশে
সুরকারমাইকেল গিয়াচ্চিনো
চিত্রগ্রাহকবেন ডেভিস
সম্পাদক
  • ওয়াট স্মিথ[১]
  • সাব্রিনা প্লিস্কো[২]
প্রযোজনা
কোম্পানি
পরিবেশকওয়াল্ট ডিজনি স্টুডিওজ
মোশন পিকচার্স
মুক্তি
  • ১৩ অক্টোবর ২০১৬ (2016-10-13) (হংকং)
  • ৪ নভেম্বর ২০১৬ (2016-11-04) (যুক্তরাষ্ট্র)
দৈর্ঘ্য১১৫ মিনিট[৩]
দেশযুক্তরাষ্ট্র
ভাষাইংরেজি
নির্মাণব্যয়$১৬৫–২৩৬.৬ মিলিয়ন[৪][৫]
আয়$৬৭৭.৭ মিলিয়ন[৬]

ডক্টর স্ট্রেঞ্জ হচ্ছে ২০১৬ সালে মুক্তিপ্রাপ্ত মার্ভেল কমিকসের একই নামের চরিত্র সমন্বিত একটি মার্কিন অ্যাকশনধর্মী সুপারহিরো চলচ্চিত্র। এটি মার্ভেল স্টুডিওজ কর্তৃক প্রযোজিত এবং ওয়াল্ট ডিজনি স্টুডিওজ মোশন পিকচার্স কর্তৃক পরিবেশিত। এটি মার্ভেল সিনেমাটিক ইউনিভার্সের চতুর্দশতম চলচ্চিত্র।চলচ্চিত্রটি পরিচালনা করেছেন স্কট ডেরিকসন।চলচ্চিত্রের মূল চরিত্রে অভিনয় করেন বেনেডিক্ট কাম্বারব্যাচ এবং তার সাথে চুয়াটেল এজিওফর, র‍্যাচেল ম্যাকঅ্যাডামস, বেনেডিক্ট অং, মাইকেল স্টালবার্গ, বেঞ্জামিন ব্র‍্যাট, স্কট এডকিন্স, ম্যাডস মিকেলসেন, টিল্ডা সুইন্টন গুরুত্বপূর্ণ চরিত্রে অভিনয় করেন।চলচ্চিত্রে শল্যচিকিৎসক স্টিফেন স্ট্রেঞ্জ পেশাজীবন শেষ করা একটি দুর্ঘটনার পর গুপ্ত জাদুবিদ্যা রপ্ত করেন।

স্কট ডেরিকসনের পরিচালনায় এর অনুবর্তী পর্ব পরিবর্ধন করা হচ্ছে।

কাহিনী সংক্ষেপ[সম্পাদনা]

কাঠমুন্ডুতে, জাদুকর কাইসিলিয়াস ও তার অনুসারীরা কামার-তাজের গুপ্ত ঘরে প্রবেশ করে এবং এর লাইব্রেরিয়ানের শিরচ্ছেদ করে।তারপর এনশিয়েন্ট ওয়ান (যিনি কাইসিলিয়াসসহ বাকিদের জাদুবিদ্যা শিখিয়ে ছিলেন) এর বই থেকে কিছু পাতা ছিড়ে নেয়।এনশিয়েন্ট ওয়ান বিশ্বাসঘাতকদের পিছা করলেও তারা পালিয়ে যায়।

নিউ ইয়র্কে ধনী,প্রশংসিত ও দাম্ভিক নিউরোসার্জন স্টিফেন স্ট্রেঞ্জ একটি সড়ক দুর্ঘটনায় মারাত্মকভাবে আহত হয়,যার ফলে তার চিকিৎসক জীবনের ইস্তফা দিতে হয়।সহযোগী ডাক্তার ও সাবেক প্রেমিকা ক্রিস্টিন পালমার তাকে সাহায্য করার চেষ্টা করে।তবে তিনি হাত ঠিক করার জন্য অদ্ভুত কিন্তু ব্যর্থ কিছু চিকিৎসা করে,যা তাকে প্রায় দেউলিয়া করে দেয়।তিনি জোনাথান প্যাংবর্নের কথা জানতে পারেন, যিনি রহস্যজনকভাবে তার অচল পা ভালো করে তুলে।প্যাংবর্ন তাকে কামার-তাজের সন্ধান দেয়,যেখানে ব্যারোন মোর্ডো তাকে এনশিয়েন্ট ওয়ানের কাছে নিয়ে যায়|তিনি অপ্রত্যাশিতভাবে স্ট্রেঞ্জকে প্রশিক্ষণ দিতে সম্মত হন, যার অহংকার ও উচ্চাকাঙ্ক্ষা তাকে কাইসিলিয়াসকে মনে করিয়ে দেয়।

স্ট্রেঞ্জ এনশিয়েন্ট ওয়ান ও মোর্ডোর অধীনে দীক্ষা লাভ করতে থাকেন।তিনি জানতে পারেন পৃথিবীকে অন্য মাত্রার হুমকি থেকে বাচাতে নিউ ইয়র্ক, লন্ডন, হংকং এ তিনটি ইমারত নির্মিত স্যাংট্রাম আছে,যেগুলো কামার-তাজের সাথে সংযুক্ত।সসেরার বা জাদুকরদের কাজ এগুলো রক্ষা করা।তিনি কাইসিলিয়াসের চুরি বই থেকে আই অফ আগামোটো দ্বারা সময়কে নিয়ন্ত্রণ করা শিখে।কিন্তু ওং এবং মোর্ডো তাকে প্রকৃতির বিরুদ্ধে না যেতে সতর্ক করে দেয়।

চুরি করা পাতা দিয়ে কাইসিলিয়াস অন্ধকার মাত্রার ডোরমামুর সাথে যোগাযোগ করে,সেখানে সময় বলতে কিছু নেই।কাইসিলিয়াস পৃথিবীর প্রতিরক্ষা ব্যবস্থা দুর্বল করতে লন্ডন স্যাংট্রাম ধ্বংস করে এবং নিউইয়র্ক স্যাংট্রামের প্রহরীকে হত্যা করে।এনশিয়েন্ট ওয়ান ও মোর্ডো আসা পর্যন্ত ডক্টর স্ট্রেঞ্জ ক্লোক অফ লেভিটেশনের সাহায্য তাদের আটকায়। ডক্টর স্ট্রেঞ্জ মোর্ডোকে বলে এনশিয়েন্ট ওয়ান জীবন বৃদ্ধির জন্য অন্ধকার মাত্রা থেকে শক্তি আনছে। উক্ত মারামারিতে এনশিয়েন্ট ওয়ান নিহত হয়। মারা যাওয়ার আগে এনশিয়েন্ট স্ট্রেঞ্জকে বলে যে তাকেও নিয়ম ভাঙতে হবে। হংকং এসে তারা দেখে যে হংকং স্যাংট্রাম ধ্বংস করা হয়ে গেছে এবং অন্ধকার মাত্রা পৃথিবীকে আচ্ছন্ন করে ফেলছে। ডক্টর স্ট্রেঞ্জ তখন প্রকৃতির বিরুদ্ধে গিয়ে ডোরমামু ও তার চারপাশে একটি টাইম লুপ তৈরি করে। বারবার মারার পরও স্ট্রেঞ্জের বেচে যাওয়া দেখে ডোরমামু বিরক্ত হয় এবং স্ট্রেঞ্জের দাবি মেনে কাইসিলিয়াস ও সে পৃথিবী ছেড়ে চলে যায়।

এনশিয়েন্ট ওয়ান এবং ডক্টর স্ট্রেঞ্জের প্রকৃতির বিরুদ্ধে কার্যক্রম দেখে মোর্ডো চলে যায়।স্ট্রেঞ্জ আই অফ আগামোটোটি কামার-তাজে রেখে দেয়।মধ্য-কৃতিত্ব চিত্রে দেখানো থর তার ভাই লোকিকে নিয়ে এসেছে তাদের বাবা ওডিনকে খুজতে। এসেছে[N ১] শেষ-কৃতিত্ব চিত্রে মোর্ডো প্যাংবর্ন থেকে জাদুই শক্তি নিয়ে নেয় এবং বলে যে প্রয়োজনের তুলনায় বেশি জাদুকর আছে।

কুশীলব[সম্পাদনা]

বাম থেকে ডানে: কাম্বারব্যাচ, ডেরিকসন, সুইন্টন, ম্যাকঅ্যডামস, এজিওফর, মিকেলসেন এবং ওং; ২০১৬ সান ডিয়েগো কমিক কনে
  • স্টিভেন স্ট্রেঞ্জ হিসেবে বেনেডিক্ট কাম্বারব্যাচ:
    একজন প্রাক্তন নিউরোসার্জন যিনি গাড়ি দুর্ঘটনার পর একটি চিকিৎসার সফরে জাদু এবং অনেক গোপন দুনিয়ার আবিষ্কার করেন এবং অতীন্দ্রিয় কলার গুরু হয়ে উঠেন।
  • কার্ল মোর্ডো হিসেবে চুয়াটেল এজিওফর: অতীন্দ্রিয় বিদ্যা পারদর্শী এবং ডক্টর স্ট্রেঞ্জের পরামর্শদাতা।
  • ক্রিস্টিন পালমার হিসেবে র‍্যাচেল ম্যাকঅ্যাডামস: একজন জরুরি বিভাগের সার্জন এবং স্টিফেন স্ট্রেঞ্জের সাবেক প্রেমিকা।
  • নিকোদেমাস ওয়েস্ট হিসেবে মাইকেল স্টালবার্গ: স্টিফেন স্ট্রেঞ্জের প্রতিদ্বন্দ্বী সার্জন।
  • জোনাথান প্যাংবর্ন হিসেবে বেঞ্জামিন ব্র‍্যাট: একজন অচল ব্যক্তি যিনি জাদুর মাধ্যমে চলতে পারেন।
  • লুসিয়ান হিসেবে স্কট এডকিন্স: কাইসিলিয়াসের একজন সহযোগী।
  • কাইসিলিয়াস হিসেবে ম্যাডস মিকেলসেন: অতীন্দ্রিয় কলায় পারদর্শী।যিনি অনন্ত জীবনের জন্য ডরমামুকে সাহায্য করার চেষ্টা করেন।
  • এনশিয়েন্ট ওয়ান হিসেবে টিল্ডা সুইন্টন: অতীন্দ্রিয় বিদ্যার গুরু,যিনি স্টিফেন স্ট্রেঞ্জকে জাদু শিখিয়েহেন
  • ওং হিসেবে বেনেডিক্ট ওং: অতীন্দ্রিয় কলার গুরুদের মধ্যে একজন, কামার-তাজের সবচেয়ে মূল্যবান ধ্বংসাবশেষ এবং বইয়ের কিছু অংশ রক্ষার সঙ্গে কাজের দায়িত্বে।

ডরমামু হিসেবে কাম্বারব্যাচই অভিনয় করেন।

টীকা[সম্পাদনা]

  1. থর: র‍্যাগনারক (২০১৭) এ দেখানো হয়

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. Giardina, Carolyn (আগস্ট ১, ২০১৫)। "EditFest: 'Ant-Man,' 'Avengers 2' Editors on Working in the Marvel Universe"The Hollywood Reporter। আগস্ট ২, ২০১৫ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ আগস্ট ১, ২০১৫ 
  2. "Marvel's 'Doctor Strange' Begins Production"Marvel.com। নভেম্বর ২৪, ২০১৫। নভেম্বর ২৪, ২০১৫ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ নভেম্বর ২৪, ২০১৫ 
  3. উদ্ধৃতি ত্রুটি: অবৈধ <ref> ট্যাগ; BBFC নামের সূত্রের জন্য কোন লেখা প্রদান করা হয়নি
  4. Beyers, Tim (অক্টোবর ২২, ২০১৬)। "Instant Analysis: For Disney Investors, 'Doctor Strange' Is Tracking Disappointment"The Motley Fool। অক্টোবর ২৩, ২০১৬ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ অক্টোবর ২৩, ২০১৬ 
  5. Sylt, Christian (এপ্রিল ২৭, ২০১৮)। "Disney Reveals Financial Muscle Of 'Avengers: Infinity War'"Forbes। মে ৩, ২০১৮ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ মে ৩, ২০১৮ 
  6. "ডক্টর স্ট্রেঞ্জ (২০১৬)"বক্স অফিস মোজো। সংগ্রহের তারিখ এপ্রিল ২৪, ২০১৭ 

বহিঃসংযোগ[সম্পাদনা]