গুজরানওয়ালা জেলা

স্থানাঙ্ক: ৩২°১০′ উত্তর ৭৩°৫০′ পূর্ব / ৩২.১৬৭° উত্তর ৭৩.৮৩৩° পূর্ব / 32.167; 73.833
উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
গুজরানওয়ালা
گُوجرانوالا
জেলা
গুজরানওয়ালা
পাঞ্জাবের গুজরানওয়ালা জেলার অবস্থান (কমলা দিয়ে চিহ্নিত করা হয়েছে )।
পাঞ্জাবের গুজরানওয়ালা জেলার অবস্থান (কমলা দিয়ে চিহ্নিত করা হয়েছে )।
স্থানাঙ্ক: ৩২°১০′ উত্তর ৭৩°৫০′ পূর্ব / ৩২.১৬৭° উত্তর ৭৩.৮৩৩° পূর্ব / 32.167; 73.833
দেশপাকিস্তান
প্রদেশপাঞ্জাব
রাজধানীগুজরানওয়ালা
আয়তন[১]
 • মোট৩,৬২২ বর্গকিমি (১,৩৯৮ বর্গমাইল)
জনসংখ্যা (২০১৭)[২]
 • মোট৫০,১৪,১৯৬
 • জনঘনত্ব১,৪০০/বর্গকিমি (৩,৬০০/বর্গমাইল)
সময় অঞ্চলপিকেটি (ইউটিসি+৫)
তহসিলের সংখ্যা
ভাষা (১৯৮১)৯৭.৬% পাঞ্জাবি[৩]

গুজরানওয়ালা জেলা (পাঞ্জাবি এবং উর্দু: ضِلع گُوجرانوالا‎‎), পাকিস্তানের পাঞ্জাব প্রদেশে অবস্থিত একটি অন্যতম জেলা

জনসংখ্যার উপাত্ত[সম্পাদনা]

১৯৯৮ সালের আদমশুমারীর হিসাব অনুযায়ী, জেলাটির জনসংখ্যা ছিল প্রায় ৩,৪০০,৯৪০ জন এর মত, যার মধ্যে থেকে প্রায় ৫১% শহুরে বসবাসকারী জনসংখ্যা ছিল। বর্তমানে এখানকার জনসংখ্যা প্রায় ৪,৩০৮,৯০৫ জনে পৌছে গেছে।[৪]:২৩[৫]

জেলাটিতে সবচেয়ে ব্যবহৃত সাধারণ ভাষা হচ্ছে পাঞ্জাবী, যেটি ১৯৯৮ সালের আদমশুমারি অনুসারে ৯৭% জনসংখ্যার প্রথম ভাষা মাতৃভাষা ছিল, এছাড়াও অন্যান্য ১.৯% লোজ উর্দু ভাষা ব্যবহার করে থাকে।[৪]:২৭[৬]

প্রশাসন[সম্পাদনা]

গুজরাওয়ালা হচ্ছে বাস্তবে একটি শহরে জেলা। জেলাটি নিম্নলিখিত তহসিল বিভক্ত:

এছাড়াও, এই তহসিলের অধীনে নিম্নলিখিত শহরগুলি রয়েছে:

  • খিয়ালি শাহপুরি শহর
  • অরুপ শহর
  • নন্দিপুর শহর
  • কিলা দিদার সিং শহর
  • ওয়াজিরাবাদ শহর
  • কামোনকি শঞর
  • নওশেরা ভিরকান শহ

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. "Gujranwala | Punjab Portal"। সংগ্রহের তারিখ ১৫ ডিসেম্বর ২০১৬ 
  2. "DISTRICT WISE CENSUS RESULTS CENSUS 2017" (PDF)। www.pbscensus.gov.pk। ২৯ আগস্ট ২০১৭ তারিখে মূল (PDF) থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ৮ মার্চ ২০১৯ 
  3. Stephen P. Cohen (২০০৪)। The Idea of PakistanBrookings Institution Press। পৃষ্ঠা 202আইএসবিএন 0815797613 
  4. 1998 District Census report of Gujranwala। Census publication। 37। Islamabad: Population Census Organization, Statistics Division, Government of Pakistan। ১৯৯৯। 
  5. "Statistics - Official website of Gujranwala Police"। ১৩ এপ্রিল ২০০৮ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ৮ মার্চ ২০১৯ 
  6. "Mother tongue": defined as the language of communication between parents and children and recorded of each individual.

বহিঃসংযোগ[সম্পাদনা]