ইমামউদ্দিন আহমাদ

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
ইমামউদ্দিন আহমাদ
ইমামউদ্দিন আহমাদ.png
জন্ম২ জুলাই ১৯৩৫
মৃত্যু১২ ফেব্রুয়ারি ২০০৬(2006-02-12) (বয়স ৭০)
জাতীয়তাবাংলাদেশী
যেখানের শিক্ষার্থীসরকারি রাজেন্দ্র কলেজ
পেশারাজনীতিবিদ
পরিচিতির কারণভাষাসৈনিক ও রাজনীতিবিদ
উল্লেখযোগ্য কর্ম
ফরিদপুরে ৪৫ টি প্রাথমিক বিদ্যালয় ও ২টি উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রতিষ্ঠাতা
রাজনৈতিক দলবাংলাদেশ আওয়ামীলীগ (১৯৪৮–২০০৬)
দাম্পত্য সঙ্গীরুশেমা বেগম
পিতা-মাতা
  • নাসির উদ্দিন আহমেদ (পিতা)

ইমামউদ্দিন আহমাদ (২ জুলাই ১৯৩৫ - ১২ ফেব্রুয়ারি ২০০৬) ‍ছিলেন একজন বাংলাদেশি রাজনীতিবিদ, ভাষাসৈনিক ও মুক্তিযোদ্ধা ছিলেন। ১৯৭১ সালে স্বাধীনতা যুদ্ধের সংগঠক হিসেবে তিনি বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের উপদেষ্টা ছিলেন ও ১৯৭৩ সালে ফরিদপুর-৫ (বর্তমানে ফরিদপুর-৩) আসনে জাতীয় সংসদ সদস্য নির্বাচিত হন। [১]

প্রারম্ভিক জীবন[সম্পাদনা]

ইমামউদ্দিন আহমাদ ১৯৩৫ সালের ২ জুলাই ফরিদপুর শহরের শহরতলী কমলাপুর এলাকায় জন্মগ্রহণ করেন।[২] তার পিতার নাম নাসির উদ্দিন আহমেদ। তৎকালীন বৈরাগী স্কুল (বর্তমান টেপাখোলা সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়) থেকে তার শিক্ষাজীবন শুরু করেন এবং সরকারি রাজেন্দ্র কলেজ থেকে বিএ ডিগ্রি লাভ করেন।

রাজনৈতিক জীবন ও অবদান[সম্পাদনা]

ইমামউদ্দিন ১৯৪৯ সালে পূর্ব পাকিস্তান ছাত্রলীগ ফরিদপুর জেলা শাখার সভাপতি নির্বাচিত হন। তিনি ফরিদপুর জেলায় ১৯৫২ সালে সংগঠিত বাংলা ভাষা আন্দোলন, ঊনসত্তরের গণঅভ্যুত্থান এবং ১৯৭১ সালে বাংলাদেশের স্বাধীনতা যুদ্ধে সংগঠকের ভূমিকা পালন করেন।[৩][৪] ইমামউদ্দিন ভাষা আন্দোলনে ফরিদপুর রাজেন্দ্র কলেজে ছাত্রদের ভাষা আন্দোলনের মিছিলে নেতৃত্ব দেন।[৫] ১৯৭০ সালে অনুষ্ঠিত পাকিস্তানের সাধারণ নির্বাচনে তিনি পূর্ব পাকিস্তান থেকে প্রাদেশিক সভার সদস্য নির্বাচিত হন। এরপর বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় কার্যকরী সংসদের সদস্য হন এবং পরবর্তীতে দলটির কেন্দ্রীয় উপদেষ্টা মন্ডলীর সদস্য নির্বাচিত হন। আমৃত্যু তিনি এই পদে বহাল ছিলেন। ভাষা সৈনিক ১৯৭৩ সালে ১ম জাতীয় সংসদ নির্বাচনে এমপি নির্বাচিত হন। ইমাম উদ্দিন আহমাদ ফরিদপুরের শিক্ষা ক্ষেত্রে ৪৫ টি প্রাথমিক বিদ্যালয় ও ২টি উচ্চ বিদ্যালয় প্রতিষ্ঠা করেন। [৬]

ব্যক্তিগত জীবন[সম্পাদনা]

ইমামউদ্দিন ব্যক্তিগত জীবনে ১৯৫৪ সালে বেগম রুশেমা ইমামের সাথে বিবাহবন্ধনে আবদ্ধ হন। ২০০৬ সালের ১২ ফেব্রুয়ারি ফরিদপুর সদরের কি পাইলাম মোড় নামক স্থানে সড়ক দুর্ঘটনায় তিনি মৃত্যুবরণ করেন। [৭]

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. "ইমামউদ্দিন আহমাদ"যুগান্তর। সংগ্রহের তারিখ ১ মার্চ ২০১৯ 
  2. "ইমামউদ্দিন আহমাদ স্মরণে"সমকাল। সংগ্রহের তারিখ ১ মার্চ ২০১৯ 
  3. "ফরিদপুরে ভাষা আন্দোলনের নেতৃত্বে ছিল শিক্ষার্থীরা"বণিক বার্তা। সংগ্রহের তারিখ ১ মার্চ ২০১৯ [স্থায়ীভাবে অকার্যকর সংযোগ]
  4. "'ফরিদপুরে ভাষা আন্দোলন শুরু হয় ১৯৪৮ সালে'"বাংলানিউজ২৪.কম (ইংরেজি ভাষায়)। সংগ্রহের তারিখ ১ মার্চ ২০১৯ 
  5. "আমাদের শহীদ মিনার : ফরিদপুর জেলা"দৈনিক ইত্তেফাক। সংগ্রহের তারিখ ৯ জুলাই ২০১৯ 
  6. "১ম জাতীয় সংসদে নির্বাচিত মাননীয় সংসদ-সদস্যদের নামের তালিকা" (PDF)জাতীয় সংসদবাংলাদেশ সরকার। ৯ সেপ্টেম্বর ২০১৮ তারিখে মূল (PDF) থেকে আর্কাইভ করা। 
  7. "AL leader Imamuddin passes away"। বিডিনিউজ। সংগ্রহের তারিখ ৯ জুলাই ২০১৯