অ্যানি (অভিনেত্রী)

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
অ্যান
জন্ম
অ্যানি জোব্

(1975-07-21) ২১ জুলাই ১৯৭৫ (বয়স ৪৫)[১]
অন্যান্য নামচিত্রা শাজি কৈলাস
পেশা
কর্মজীবন১৯৯৩ – ১৯৯৬ (চলচ্চিত্র)
২০১৫ – বর্তমান (টেলিভিশন)
দাম্পত্য সঙ্গীশাজি কৈলাস (বি. ১৯৯৬)
সন্তান

চিত্রা শাজি কৈলাস (জন্ম: অ্যানি জোব্বি; ২১ জুলাই ১৯৭৫), অ্যানি নামেই বেশি পরিচিত, তিনি কেরালার একজন ভারতীয় চলচ্চিত্র অভিনেত্রী এবং টেলিভিশন উপস্থাপক, মালয়ালম চলচ্চিত্র এবং টেলিভিশনে তার উপস্থিতি দেখা যায়। তাঁর চলচ্চিত্র জীবন ১৯৯৩ থেকে ১৯৯৬ সাল পর্যন্ত তিন বছর বিস্তৃত, মালয়ালম চলচ্চিত্রে তিনি মোট ১৬ টি চলচ্চিত্রে অভিনয় করেছেন, তিনি বিয়ের পর অভিনয় থেকে অবসর নেন এবং ২০১৫ সালে টেলিভিশন উপস্থাপক হিসাবে নতুন কর্ম জীবন শুরু করেন।

১৯৯৩ সালে তিনি আম্মায়নে সত্যম ছবিতে অভিনেত্রী হিসাবে আত্মপ্রকাশ করেন। তিনি ১৯৯৫ সালে মাজাহেথুম মুনপে চলচ্চিত্রে অভিনয়ের জন্য শ্রেষ্ঠ অভিনেত্রী বিভাগে ফিল্মফেয়ার পুরস্কার- মালয়ালম লাভ করেন।[২] তার অন্যান্য উল্লেখযোগ্য চলচ্চিত্রগুলির মধ্যে রয়েছে পার্বতী পরিনয়াম (১৯৯৫), টম অ্যান্ড জেরি (১৯৯৫), পুঠুকোট্টয়াইল পুঠুমানাভালান (১৯৯৫), এবং স্বপ্ন লোকতে বালভাস্করণ (১৯৯৬)।

ব্যক্তিগত জীবন[সম্পাদনা]

তিনি ভারতের কেরালার পাল্লাইয়ের খ্রিস্টান পরিবারের জন্ম গ্রহণ করেন এবং তিরুবল্লায় বেড়ে ওঠেন। তিনি ১৯৭৮ সালে জোব্বি এবং মারিয়াম্মার ঘরে জন্মগ্রহণ করেন। তাঁর তিনজন বড় বোন, তারা হলেন লিসি, মেরি এবং টেসি। তিনি যখন অষ্টম শ্রেণিতে পড়েন সে সময় তাঁর মা মারা যান।[৩] যদিও তিনি পলাই থেকে এসেছিলেন, বাবার চাকরির কারণে পরিবারটি তিরুবনন্তপুরমে স্থায়ী হয়েছিল। তিনি তিরুবনন্তপুরমের হলি অ্যাঞ্জেল এর কনভেন্ট উচ্চ মাধ্যমিক বিদ্যালয়ে পড়াশোনা করেন এবং এরপর উচ্চতর পড়াশুনার জন্য অল সেন্ট কলেজে যোগদান করেন এবং এই সময়েই তিনি চলচ্চিত্রে প্রবেশ করেন।

কর্মজীবন[সম্পাদনা]

তিনি যখন দশম শ্রেণিতে অধ্যয়নরত ছিলেন তখন তিনি একটি স্থানীয় টেলিভিশন চ্যানেলের পক্ষে পরিচালক বালচন্দ্র মেননের সাক্ষাৎকার নেওয়ার সুযোগ লাভ করেন এবং সাক্ষাৎকারের সময় তার পারদর্শিতা দেখে মেনন বেশ অভিভূত হয়ে পড়েন। তিন বছর পরে যখন তিনি প্রথম বর্ষে অধ্যয়ন করেন তখন মেনন তাকে তার নতুন ছবি আম্মায়নে সত্যয়মের মূল চরিত্রে অভিনয়ের জন্য প্রস্তাব দেন। এটি একটি বৈশিষ্ট্যসূচক গল্প ছিল তাতে ছোট ছেলে 'রাম কুমার থমাস' এবং তারপরে একজন মেয়ে 'পার্বতী'র চরিত্রে দ্বৈত ভূমিকায় অভিনয় করেন, যা অনেক মূল্যায়ন ও প্রশংসা অর্জন করেন। ছবিটি একটি বিরাট সাফল্য লাভ করে এবং ইতিমধ্যে তিনি সিনেমাতে ব্যস্ত হয়ে পড়ার পর থেকে তার পড়াশোনা বন্ধ হয়ে যায়। বালচন্দ্র মেননের সাথে চুক্তির কারণে তিনি নির্দিষ্ট সময়ের জন্য সেখানে তখনকার প্রস্তাবগুলি গ্রহণ করতে পারেননি তবে পরে তিনি সুরেশ গোপীর ছবি রুদ্রাক্ষমে অভিনয় করেন আর ছবিটির পরিচালক ছিলেন শাজী কৈলাস। সেই ছবির স্যুটিং এর সময় শাজি কৈলাস এবং অ্যানি প্রেমে পড়ে যান এবং বিয়ে করার দৃঢ় সংকল্প করেন। ইতিমধ্যে তিনি প্রায় পনেরোটি ছবিতে অভিনয় করেন।

১৯৯৬ সালে পরিচালক শাজী কৈলাসকে বিয়ে করার পর তিনি অভিনয় থেকে অবসর নেন। এই দম্পতির তিন সন্তান আছে — জগন্নাথন, শ্যারন এবং রোশন। তাঁরা বর্তমানে কেরালার তিরুবনন্তপুরমে স্থায়ী হয়েছেন। তার অভিনীত শেষ ছবি ছিল মুক্কিল্লা রাজ্যথু মুরিমুক্কান রাজাভু (১৯৯৬)। ২০১৫ সালে আগস্ট মাসে তিনি অমৃতা টিভিতে টেলিভিশন শো অ্যানির রান্নাঘর উপস্থাপনা করা শুরু করেন।

চলচ্চিত্রের তালিকা[সম্পাদনা]

চলচ্চিত্র[সম্পাদনা]

বছর শিরোনাম ভূমিকা পরিচালক
১৯৯৬ কিরেদামিল্লাথ রাজাক্কনমার ন্যান্সি এন্ড বিনসি আনসার কলাভবন
১৯৯৬ মুক্কিল্লা রাজ্যথু মুরিমুক্কান রাজাভু চন্দিনী ভার্মা সসি মোহন
১৯৯৬ মি. ক্লিন নন্দিনী থাম্পি বিনয়ন
১৯৯৬ স্বপ্না লোকতে বালভস্করণ চন্দ্রিকা রাজাসেনন
১৯৯৫ সাক্ষ্যম ডেইজি মোহন
১৯৯৫ পুঠুকোট্টাইল পুথু মানাবলান গীতু রাফি মেকার্টিন
১৯৯৫ ইন্ডিয়ান মিলিটারি ইন্টেলিজেন্স গানে উপস্থিতি টি.এস. সুরেশ বাবু
১৯৯৫ টম অ্যান্ড জেরি মীনাক্ষী কালাধরন
১৯৯৫ কল্যাণজি আনন্দজি নির্মলা, শিবাগামী বালু কিরিয়াথ
১৯৯৫ মাজবিলকুদারাম বিনু সিদ্দিক সমীর
১৯৯৫ পার্বতী পরিনয়ম্ পার্বতী পি. জি. বিশ্বম্ভরন
১৯৯৫ আলানচেরি থমপ্রাক্কল মীরা/লেখা ভর্মা সুনীল
১৯৯৫ মাজাহেথুম মুনপে শ্রুতি কামালুদ্দিন মোহাম্মদ
১৯৯৫ অক্ষরম মীনাক্ষি সিবি মালাইল
১৯৯৪ রুদ্রাক্ষম গৌরি শাজি কৈলাস
১৯৯৩ আম্মায়নে সত্যম পার্বতী/থমাস/রামকুমার চেঙ্গামান্দা বালাচন্দ্র মেনন

টেলিভিশন[সম্পাদনা]

বছর অনুষ্ঠান ভূমিকা চ্যানেল মন্তব্য
১৯৯৩ চিত্রজিঠাম উপস্থাপক দূরদর্শন
২০১৫–বর্তমান অ্যানির কিচেন উপস্থাপক অমৃতা টিভি
২০১৭ কমেডি তারকা বিচারক এশিয়ানেট
২০১৮ আনিয়ুড রুচিকুটুকাল উপস্থাপক অমৃতা টিভি
২০১৮ অ্যানির সাথে দুবাই এ সুন্দর দিনগুলি উপস্থাপক অমৃতা টিভি
২০১৮ সুপার জোডি বিচারক সূর্য টিভি শ্বেতা মেননের পরিবর্তে
২০১৯ সাকালাকালাভল্লভন বিচারক এশিয়ানেট

পুরস্কার[সম্পাদনা]

  • ১৯৯৬ - মাজাহেথুম মুনপে চলচ্চিত্রে অভিনয়ের জন্য শ্রেষ্ঠ অভিনেত্রী বিভাগে ফিল্মফেয়ার পুরস্কার
  • ২০১৬ - ভাইয়ালার পুরস্কার - সেরা টেলিভিশন উপস্থাপক

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. ദി കിംഗ്‌ മേക്കര്‍. mangalam.com (1 December 2012). Retrieved on 28 December 2013.
  2. "Filmfare Awards"www.filmfare.com। নভেম্বর ১৯৯৬ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। 
  3. "അടുക്കള തന്നെ അരങ്ങ്‌"। mangalamvarika.com। সংগ্রহের তারিখ ২৪ নভেম্বর ২০১৫ 

বহিঃসংযোগ[সম্পাদনা]