সেন্ট মার্টিন জাতীয় ফুটবল দল

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
সেন্ট মার্টিন
ডাকনামসেন্ট সোয়ালোস
অ্যাসোসিয়েশনসেন্ট-মার্টিন ফুটবল কমিটি
কনফেডারেশনকনকাকাফ (উত্তর আমেরিকা)
প্রধান কোচস্তেফান অভ্রে
অধিনায়কইয়ানিক বেলেচাসে
সর্বাধিক ম্যাচঅঁরি এমিল (১৪)
শীর্ষ গোলদাতাইয়ানিক বেলেচাসে (৪)
মাঠআলবেরিক রিচার্ডস স্টেডিয়াম
ফিফা কোডSMN
ওয়েবসাইটsaintmartinfootball.com
প্রথম জার্সি
দ্বিতীয় জার্সি
ফিফা র‌্যাঙ্কিং
বর্তমান নেই (১৮ ফেব্রুয়ারি ২০২১)[১]
এলো র‌্যাঙ্কিং
বর্তমান ২০৬ হ্রাস(১ এপ্রিল ২০২১)[২]
সর্বোচ্চ১৬২ (মে ১৯৯০)
সর্বনিম্ন২১২ (সেপ্টেম্বর ২০১৯)
প্রথম আন্তর্জাতিক খেলা
 সিন্ট মার্টেন ১–৩ সেন্ট মার্টিন 
(সিন্ট মার্টেন; ১৪ জুন ১৯৮৮)
বৃহত্তম জয়
 সেন্ট মার্টিন ৫–১ কেইম্যান দ্বীপপুঞ্জ 
(সেন্ট মার্টিনের সমষ্টি; ৩০ মার্চ ১৯৯০)
 অ্যাঙ্গুইলা ১–৫ সেন্ট মার্টিন 
(সেন্ট মার্টিনের সমষ্টি; ২৮ জুলাই ২০১৮)
 অ্যাঙ্গুইলা ০–৪ সেন্ট মার্টিন 
(অ্যাঙ্গুইলা; ২৬ মার্চ ১৯৯০)
বৃহত্তম পরাজয়
 জ্যামাইকা ১২–০ সেন্ট মার্টিন 
(কিংস্টন, জ্যামাইকা; ২৪ নভেম্বর ২০০৪)

সেন্ট মার্টিন জাতীয় ফুটবল দল (ইংরেজি: Saint Martin national football team) হচ্ছে আন্তর্জাতিক ফুটবলে সেন্ট মার্টিনের প্রতিনিধিত্বকারী পুরুষদের জাতীয় দল, যার সকল কার্যক্রম সেন্ট মার্টিনের ফুটবলের সর্বোচ্চ নিয়ন্ত্রক সংস্থা সেন্ট-মার্টিন ফুটবল কমিটি দ্বারা নিয়ন্ত্রিত হয়। এই দলটি এখন পর্যন্ত ফুটবলের সর্বোচ্চ সংস্থা ফিফার সদস্যপদ লাভ করেনি এবং ২০১৩ সাল হতে তাদের আঞ্চলিক সংস্থা কনকাকাফের সদস্য হিসেবে রয়েছে।[৩] ১৯৮৮ সালের ১৪ই জুন তারিখে, সেন্ট মার্টিন প্রথমবারের মতো আন্তর্জাতিক খেলায় অংশগ্রহণ করেছে; সিন্ট মার্টেনে অনুষ্ঠিত উক্ত ম্যাচে সেন্ট মার্টিন সিন্ট মার্টেনকে ৩–১ গোলের ব্যবধানে পরাজিত হয়েছে।

২,৬০০ ধারণক্ষমতাবিশিষ্ট আলবেরিক রিচার্ডস স্টেডিয়ামে সেন্ট সোয়ালোস নামে পরিচিত এই দলটি তাদের সকল হোম ম্যাচ আয়োজন করে থাকে। এই দলের প্রধান কার্যালয় সেন্ট মার্টিন সমষ্টিতে অবস্থিত। বর্তমানে এই দলের ম্যানেজারের দায়িত্ব পালন করছেন স্তেফান অভ্রে এবং অধিনায়কের দায়িত্ব পালন করছেন জুনিয়র স্টার্সের মধ্যমাঠের খেলোয়াড় ইয়ানিক বেলেচাসে

সেন্ট মার্টিন এপর্যন্ত একবারও ফিফা বিশ্বকাপে অংশগ্রহণ করতে পারেনি। অন্যদিকে, কনকাকাফ গোল্ড কাপেও সেন্ট মার্টিন এপর্যন্ত একবারও অংশগ্রহণ করতে সক্ষম হয়নি।

ইয়ানিক বেলেচাসে, এলভিস ফ্লেমিং, আব্দিয়াস মিলিয়াস, ইয়ানিক চেভালিয়ে এবং দানিলো ককসের মতো খেলোয়াড়গণ সেন্ট মার্টিনের জার্সি গায়ে মাঠ কাঁপিয়েছেন।

র‌্যাঙ্কিং[সম্পাদনা]

ফিফার সদস্যপদ না থাকার ফলে ফিফা বিশ্ব র‌্যাঙ্কিংয়ে সেন্ট মার্টিনের কোন স্থান নেই। অন্যদিকে, বিশ্ব ফুটবল এলো রেটিংয়ে সেন্ট মার্টিনের সর্বোচ্চ অবস্থান হচ্ছে ১৬২তম (যা তারা ১৯৯০ সালে অর্জন করেছিল) এবং সর্বনিম্ন অবস্থান হচ্ছে ২১২। নিম্নে বর্তমানে বিশ্ব ফুটবল এলো রেটিংয়ে অবস্থান উল্লেখ করা হলো:

বিশ্ব ফুটবল এলো রেটিং
১ এপ্রিল ২০২১ অনুযায়ী বিশ্ব ফুটবল এলো রেটিং[২]
অবস্থান পরিবর্তন দল পয়েন্ট
২০৪ হ্রাস  বাহামা দ্বীপপুঞ্জ ৮৭৮
২০৫ হ্রাস  পাকিস্তান ৮৭৩
২০৬ হ্রাস  সেন্ট মার্টিন ৮৫৫
২০৭ বৃদ্ধি  বাংলাদেশ ৮৩৯
২০৮ হ্রাস  কম্বোডিয়া ৮৩৭

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. "ফিফা/কোকা-কোলা বিশ্ব র‍্যাঙ্কিং"ফিফা। ১৮ ফেব্রুয়ারি ২০২১। সংগ্রহের তারিখ ১৮ ফেব্রুয়ারি ২০২১ 
  2. গত এক বছরে এলো রেটিং পরিবর্তন "বিশ্ব ফুটবল এলো রেটিং"eloratings.net। ১ এপ্রিল ২০২১। সংগ্রহের তারিখ ১ এপ্রিল ২০২১ 
  3. "CONCACAF" 

বহিঃসংযোগ[সম্পাদনা]