শাকিল আহমেদ (ক্রিকেটার)

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
শাকিল আহমেদ
ব্যক্তিগত তথ্য
পূর্ণ নামশাকিল আহমেদ
জন্ম (1966-02-12) ১২ ফেব্রুয়ারি ১৯৬৬ (বয়স ৫৬)
কুয়েত সিটি, কুয়েত
ব্যাটিংয়ের ধরনবামহাতি
বোলিংয়ের ধরনস্লো লেফট-আর্ম অর্থোডক্স
ভূমিকাবোলার
আন্তর্জাতিক তথ্য
জাতীয় পার্শ্ব
একমাত্র টেস্ট
(ক্যাপ ১৫৪)
২২ অক্টোবর ১৯৯৮ বনাম অস্ট্রেলিয়া
খেলোয়াড়ী জীবনের পরিসংখ্যান
প্রতিযোগিতা টেস্ট এফসি
ম্যাচ সংখ্যা ১০৯
রানের সংখ্যা ১২৭৪
ব্যাটিং গড় ১.০০ ১৩.২৭
১০০/৫০ -/- -/১
সর্বোচ্চ রান ৬৬
বল করেছে ৩২৫ ১৯৭২৪
উইকেট ৩৬৫
বোলিং গড় ৩৪.৭৫ ২২.৯১
ইনিংসে ৫ উইকেট ২৩
ম্যাচে ১০ উইকেট
সেরা বোলিং ৪/৯১ ৭/৬৯
ক্যাচ/স্ট্যাম্পিং ১/- ৪৮/-
উৎস: ইএসপিএনক্রিকইনফো.কম, ২৫ জানুয়ারি ২০২০

শাকিল আহমেদ (উর্দু: شکیل احمد‎‎; জন্ম: ১২ ফেব্রুয়ারি, ১৯৬৬) কুয়েত সিটিতে জন্মগ্রহণকারী সাবেক পাকিস্তানি আন্তর্জাতিক ক্রিকেটার। পাকিস্তান ক্রিকেট দলের অন্যতম সদস্য ছিলেন তিনি। ১৯৯৮ সালে সংক্ষিপ্ত সময়ের জন্যে পাকিস্তানের পক্ষে আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে অংশগ্রহণ করেছেন।[১][২][৩]

ঘরোয়া প্রথম-শ্রেণীর পাকিস্তানি ক্রিকেটে কর্নওয়াল, খান রিসার্চ ল্যাবরেটরিজ ও রাওয়ালপিন্ডি দলের প্রতিনিধিত্ব করেন। দলে তিনি মূলতঃ স্লো লেফট-আর্ম অর্থোডক্স বোলার হিসেবে খেলতেন। এছাড়াও, বামহাতে নিচেরসারিতে ব্যাটিং করতেন তিনি।

প্রথম-শ্রেণীর ক্রিকেট[সম্পাদনা]

১৯৮৫-৮৬ মৌসুম থেকে ২০০২-০৩ মৌসুম পর্যন্ত শাকিল আহমেদের প্রথম-শ্রেণীর খেলোয়াড়ী জীবন চলমান ছিল। বামহাতি স্পিনার হিসেবে রাউন্ড-আর্ম ডেলিভারির ভঙ্গীমায় বোলিং কর্মে অগ্রসর হতেন। ১৯৯৮-৯৯ মৌসুমে রাওয়ালপিন্ডির সদস্যরূপে অস্ট্রেলিয়া একাদশের বিপক্ষে দশ উইকেট লাভ করেছিলেন। তন্মধ্যে, দ্বিতীয় ইনিংসে ৭/৭১ পেয়েছিলেন।

সমগ্র প্রথম-শ্রেণীর খেলোয়াড়ী জীবনে ২২ গড়ে ৩৬৫ উইকেট লাভ করেছেন। সে তুলনায় একমাত্র টেস্টে অংশ নিয়ে চারটিমাত্র উইকেটের সন্ধান পেয়েছেন।

আন্তর্জাতিক ক্রিকেট[সম্পাদনা]

সমগ্র খেলোয়াড়ী জীবনে একটিমাত্র টেস্টে অংশগ্রহণ করেছেন শাকিল আহমেদ। ২২ অক্টোবর, ১৯৯৮ তারিখে করাচীতে সফরকারী অস্ট্রেলিয়া দলের বিপক্ষে টেস্ট ক্রিকেটে অভিষেক ঘটে তার। এটিই তার একমাত্র টেস্টে অংশগ্রহণ ছিল। এরপর আর তাকে কোন টেস্টে অংশগ্রহণ করতে দেখা যায়নি।

১৯৯৮-৯৯ মৌসুমে অস্ট্রেলিয়া দল পাকিস্তান গমন করে। সিরিজের তৃতীয় টেস্টে ৩২ বছর বয়সে খেলার জন্যে আমন্ত্রিত হন। তবে, দল নির্বাচকমণ্ডলী পাকিস্তান দলে তার অংশগ্রহণের অনুমতি দিয়ে অনেকাংশে জুয়াড়ীর ভূমিকায় অবতীর্ণ হয়েছিলেন। ডনে উল্লেখ করা হয় যে, খেলায় তিনি কোন দ্যুতি ছড়াতে পারেননি, তার চলে আসা উচিত। তাসত্ত্বেও, দ্বিতীয় ইনিংসে ৪/৯১ লাভ করেছিলেন।

মাইনর কাউন্টিজ চ্যাম্পিয়নশীপে কর্নওয়াল দলের পক্ষে খেলেছিলেন। ১২ সেপ্টেম্বর, ২০১২ তারিখে বাকিংহামশায়ারের বিপক্ষে চূড়ান্ত খেলায় ম্যান অব দ্য ম্যাচের পুরস্কার লাভ করেছিলেন তিনি।

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. List of Pakistan Test Cricketers
  2. "Pakistan – Test Batting Averages"। ESPNCricinfo। সংগ্রহের তারিখ ২৫ জানুয়ারি ২০২০ 
  3. "Pakistan – Test Bowling Averages"। ESPNCricinfo। সংগ্রহের তারিখ ২৫ জানুয়ারি ২০২০ 

আরও দেখুন[সম্পাদনা]

বহিঃসংযোগ[সম্পাদনা]