লিম্বা রাম

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
Limba Ram
The President, Smt. Pratibha Devisingh Patil presenting the Padma Shri Award to Shri Limba Ram Ahari, at an Investiture Ceremony-II, at Rashtrapati Bhavan, in New Delhi on April 04, 2012.jpg
The President, Smt. Pratibha Devisingh Patil presenting the Padma Shri Award to Shri Limba Ram Ahari, at an Investiture Ceremony-II, at Rashtrapati Bhavan, in New Delhi on April 04, 2012.
ব্যক্তিগত তথ্য
জাতীয়তাIndian
জন্ম (1972-10-30) ৩০ অক্টোবর ১৯৭২ (বয়স ৪৯)
Saradeet, Rajasthan, India
উচ্চতা১.৫৭ মি (৫ ফু ২ ইঞ্চি)
ওজন৫৮ কেজি (১২৮ পা)
ক্রীড়া
দেশIndia
ক্রীড়াArchery
সাফল্য ও খেতাব
সর্বোচ্চ স্থান4th in 1992 Barcelona Olympics.
পদকের তথ্য
 ভারত-এর প্রতিনিধিত্বকারী
Men's Archery
Archery Asian Cup
স্বর্ণ পদক - প্রথম স্থান 1989 Beijing Men's Team
রৌপ্য পদক - দ্বিতীয় স্থান 1989 Beijing Men's Individual
Asian Archery Championships
স্বর্ণ পদক - প্রথম স্থান 1992 Beijing Men's Individual
Commonwealth Archery Championships
স্বর্ণ পদক - প্রথম স্থান 1995 New Delhi Men's Team
রৌপ্য পদক - দ্বিতীয় স্থান 1995 New Delhi Men's Individual

লিম্বা রাম একজন ভারতীয় তীরন্দাজ যিনি তিনটি অলিম্পিক সহ একাধিক আন্তর্জাতিক প্রতিযোগিতায় ভারতের প্রতিনিধিত্ব করেছিলেন। [১] ১৯৯২ সালে বেইজিংয়ের এশিয়ান তীরন্দাজি চ্যাম্পিয়নশিপে তিনি একটি তীরন্দাজির বিশ্ব রেকর্ডের সমতুল্য স্কোর ক্র। ২০১২ সালে তিনি পদ্মশ্রী পুরস্কারে ভূষিত [২]

প্রাথমিক জীবন[সম্পাদনা]

লিম্বা রাম জন্মগ্রহণ করেন ১৯৭২ সালের ৭ই জানুয়ারী রাজস্থানের উদয়পুর জেলায় জন্মগ্রহণ করেন। তাঁর পরিবার আহরি উপজাতির অন্তর্ভুক্ত এবং দারিদ্র্যের কারণে, লিম্বা রাম তাঁর আদিবাসী বাঁশের ধনুক এবং খড়ের তীরের সাহায্যে জঙ্গলে চড়ুই, কণা এবং জঙ্গলের অন্যান্য প্রাণীদের শিকার করতেন । ১৯৮৭ সালে তার কাকু খবর নিয়ে এসেছিলেন যে সরকার ভাল ধনুর্বিদদের প্রশিক্ষণের জন্য নিকটবর্তী মাকরাদেও গ্রামে ট্রায়াল পরিচালনা করবে। এই ট্রায়ালে ১৫ বছর বয়সী লিম্বা রাম এবং আরও তিনটি ছেলে (যাদের মধ্যে ভবিষ্যতের অর্জুন পুরস্কার প্রাপ্ত আর্চার শ্যাম লাল ) নির্বাচিত হল। তারপরে, আরএস সোধির নিকট প্রশিক্ষন নেওয়ার জন্যে তাদের দিল্লিতে প্রেরণ করা হয়। [৩][৪]

আদিবাসী কল্যাণে কাজ করে এমন সংগঠন, অখিল ভারতীয় বনবাসী কল্যাণ আশ্রম দাবি করে যে তাদের একলব্য খেলকুদ প্রতিযোগিতার মাধ্যমে লিম্বা রামকে তারা চিহ্নিত করেছে। [৫][৬]

কর্মজীবন[সম্পাদনা]

১৯৮৭ সালে ভারতের স্পোর্টস অথরিটি কর্তৃক লিম্বা রামকে চিহ্নিত করা হয় এবং প্রশিক্ষণ দেওয়া শুরু হয়। একই বছর, তিনি বেঙ্গালুরুতে অনুষ্ঠিত জাতীয় জুনিয়র স্তরের তীরন্দাজ টুর্নামেন্টে সার্বিক চ্যাম্পিয়ন হন। এর এক বছর পরে, ১৯৮৮ সালে, লিম্বা রাম জাতীয় সিনিয়র লেভেল টুর্নামেন্টে বিজয়ী হন। তিনি কেবল নিজের সার্বিক চ্যাম্পিয়ন খেতাবই অর্জন করেননি, সেই বছর সিওলে অনুষ্ঠিত গ্রীষ্মকালীন অলিম্পিকে তার দেশের প্রতিনিধিত্বের সম্মানও অর্জন করেছিলেন। ১৯৮৯ সালে তিনি লোজান, সুইজারল্যান্ডে অনুষ্ঠিত বিশ্ব ধনুর্বিদ্যা চ্যাম্পিয়নশিপে কোয়ার্টারফাইনালে পৌঁছান। একই বছরে, তিনি এশিয়ান কাপে ব্যক্তিগত বিভাগে দ্বিতীয় স্থান অর্জন করেন এবং দলগত বিভাগে স্বর্ণপদক অর্জন করেন।

১৯৯০ সালে, তার নেতৃত্বাধীন ভারতীয় দল বেইজিং এশিয়ান গেমসে চতুর্থ স্থানে শেষ করে। তিনি তিনটি অলিম্পিকে ভারতের প্রতিনিধিত্ব করেছিলেন। ১৯৯২ সালে, তিনি ৩০ মিটার ইভেন্টে বেইজিং এশিয়ান তীরন্দাজ চ্যাম্পিয়নশিপে টাকায়োশি মাতুশিতার বিশ্ব রেকর্ডের সমান করেছিলেন, ৩৫৮/৩৬০ স্কোর করে স্বর্ণপদক অর্জন করেছিলেন। [৭][৮][৯] ১৯৯২ সালে বার্সেলোনা অলিম্পিকে রাম ব্রোঞ্জ পদকটি মিস করেছিলেন কারণ স্কোর টাই ছিল এবং প্রতিপক্ষের খেলোয়াড় -০ মিটার সেগমেন্টে মাত্র ১ দশমিক পার্থক্য অর্জন করেছিল ।১৯৯৫ সালে, নয়াদিল্লিতে অনুষ্ঠিত কমনওয়েলথ গেমসে তিনি রৌপ্যপদক এবং দলগত বিভাগে স্বর্ণপদক জিতেছিলেন। ১৯৯৬ সালে তিনি এশিয়ান রেকর্ড গড়ে জাতীয় চ্যাম্পিয়ন হয়েছিলেন। [১০] এবং ১৯৯৬ আটলান্টা গ্রীষ্মকালীন অলিম্পিকে অংশ নিয়েছিল।

পুরস্কার[সম্পাদনা]

ভারত সরকার তাকে ১৯৯১ সালে অর্জুন পুরস্কার [১১] দ্বারা এবং ২০১২ সালে পদ্মশ্রী পুরস্কার দ্বারা সম্মানিত করেন।

বর্তমান অবস্থা[সম্পাদনা]

[১২][১৩][১৪][১৫][১৬][১৭][১৮]

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. "Limba Ram Bio, Stats, and Results"Olympics at Sports-Reference.com। ২০২০-০৪-১৮ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। 
  2. "Padma Awards"। pib। জানুয়ারি ২৭, ২০১৩। সংগ্রহের তারিখ জানুয়ারি ২৭, ২০১৩ 
  3. "The Tribune, Chandigarh, India - Sport"www.tribuneindia.com 
  4. "Limba Ram : Biography, Profile, Records, Awards and Achievement"। ১ ফেব্রুয়ারি ২০১৮। 
  5. Aiming high - Vanavasi Kalyana Ashram is helping tribals achieve self-reliance - The Hindu, Saturday, February 25, 2006
  6. Sangh Sandesh, January–March 2012, Hindu Swayamsevak Sangh UK
  7. "Archery Association of India"www.indianarchery.info 
  8. "Archived copy"। ১৫ জুন ২০১১ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২৭ অক্টোবর ২০০৯ 
  9. "Archived copy"। ১৫ জুন ২০১১ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২৭ অক্টোবর ২০০৯ 
  10. http://www.indianexpress.com/oldStory/27496/
  11. "Limba Ram Profile - Indian Archer Limba Ram Biography - Information on Limba Ram Archer India"www.iloveindia.com 
  12. "Archived copy"। ১৮ জুলাই ২০১১ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২০০৯-১০-২৬ 
  13. "Archived copy"। ১৫ মার্চ ২০০৯ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২০০৯-১০-২৭ 
  14. Ali, Syed Intishab (১৭ সেপ্টেম্বর ২০০৮)। "Archer Limba Ram now seeks fresh rural talent"DNA India 
  15. [১]
  16. "Limba set for second innings"The Hindu। Chennai, India। ফেব্রুয়ারি ৮, ২০০৯। ফেব্রুয়ারি ১৪, ২০০৯ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। 
  17. "Limba eye on Delhi"The Telegraph। Calcutta, India। ফেব্রুয়ারি ৮, ২০০৯। ফেব্রুয়ারি ২১, ২০০৯ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ জুলাই ৫, ২০২১ 
  18. "Indian archers strong contenders in World Cup: Limba Ram - The Times of India"The Times Of India